Towards

Understanding the
Holy Qur'an

161 Park Avenue # 1, Brooklyn, New
Al-Qur'an
research
Foundation-usa[aqrf-usa]
2009
e m a i l : i s l a m a k m @ y a h o o . c o m ,

w w w . s c r i b d . c o m / i s l a m a k m f i @

007. Surah AlA'araf
Author: Allama Sayyid Abul A'la Mawdudi
Compiled and Edited by: Akm Fakhrul Islam

York,

USA

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

Towards
Understanding The
Holy Qur'an
007. Surah Al-A'araf

Sayyid Abul A'la Mawdudi
Compiled and Edited by

Akm Fakhrul Islam
President

Al-Qur’an Research Foundation-USA(AQRF-USA)

New York, USA
007. Surah Al-A'araf
সসসস সস-স'সসস

In the Name of Allah, Most Gracious, Most Merciful

সসসস সসসস সসসসসসস সসসস সসসস সসস সসসসসসস, সসস সসসসস।

Name

Introduction

This Surah takes its name from vv. 46-47 in which mention of A'araf occurs.
Period of Revelation
A study of its contents clearly shows that the period of its revelation is about the same as that of ALAN'AM, i. e., the last year of the Holy Prophet's life at Makkah, but it cannot be asserted with certainty
which of these two was sent down earlier. Anyhow the manner of its admonition clearly indicates that it
belongs to the same period. As both have the same historical background the reader should keep in view
the preface to AL-AN'AM.

Topics of Discussion
The principal subject of this surah is "invitation to the Divine Message sent down to Muhammad"
(Allah's peace be upon him), which is couched in a warning. This is because the Messenger had spent a
long time in admonishing the people of Makkah without any tangible effect on them. Nay, they had
turned a deaf ear to his message and become so obdurate and antagonistic that, in accordance with the
Divine Design, the Messenger was going to be commanded to leave them and turn to other people,. That
is why they are being admonished to accept the Message but, at the same time, they are being warned in
strong terms of the consequences that followed the wrong attitude of the former people towards their
Messengers. (Now that the Holy Prophet was going to" migrate from Makkah the concluding portion of
the address has been directed towards the people of the Book with whom he was going to come into
contact. This meant that the time of migration was coming near and the "invitation" was going to be
extended to mankind in general, and was not to be confined to his own people in particular as before.
During the course of the address to the Jews, the consequences of their hypocritical conduct towards
Prophet hood have also been pointed out clearly, for they professed to believe in Prophet Moses but in
practice opposed his teachings, disobeyed him and worshiped falsehood and consequently were afflicted
with ignominy and disgrace.
At the end of the Surah, some instructions have been given to the Holy Prophet and his followers for
carrying out the work of the propagation of Islam with wisdom. The most important of these is that they

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
should show patience and exercise restraint in answer to the provocations of their opponents. Above all,
they have been advised that under stress of the excitement of feeling, they should not take any wrung
step that might harm their cause.

Subject: Invitation to the Divine Message
Topics and their Interconnection

In this passage, the people have been invited to follow the Message sent down to them through
Muhammad (Allah's peace be upon him) and warned of the consequences of its rejection. 1 - 10
The story of Adam has been related with a view to warning his descendants against the evil devices of
Satan who is ever ready to mislead them as he did in the case of Adam and Eve. 11 - 25
This passage contains some Divine instructions, and contrasts these with Satan's instructions, and depicts
a graphic picture of the results and the consequences of the two. 26 - 53
As the Message has been sent down by Allah (Who is the Creator of the heavens and the earth and
everything in them), it should be followed, for it is like the rain He sends down to give life to the dead
earth. 54 - 58
Events from the lives of some well-known Prophets -- Noah, Hud, Salih, Lot, Shu`aib, Moses (Allah's
peace be upon them all) -- have been related to show the consequences of the rejection of the Message,
and the addressees of Prophet Muhammad (Allah's peace be upon him) have been admonished to accept
and follow the Message in order to escape perdition. 59 - 171
As the Covenant with the Israelites was mentioned at the end of the preceding passage, the whole
mankind has been reminded very appropriately of the Covenant that was made at the time of the
appointment of Adam as the Vicegerent of Allah so that all of his descendants should remember it and
accept and follow the Message that was delivered by the Holy Prophet. 172 - 174
The example of the one, who had the knowledge of the Message but discarded it, has been cited as a
warning to those who were treating the Message as false; they have been exhorted to use their faculties to
recognize the Message; otherwise Hell would be there abode. 175 - 179
In this concluding portion of the Surah, some deviations of those who do not use their faculties properly
to understand the Message have been dealt with and they have been admonished, reproved and warned of
the serious consequences of their antagonistic attitude towards the Message of the Holy Prophet. 180 -

198

In conclusion, instructions have been given to the Holy Prophet, and through him to his followers, about
the attitude they should adopt towards those who reject the Message and deviate from it. 199 - 206

ভূিমকা

নননননন
এ সূরার ৪৬ ও ৪৭নং আয়ােত (পঞম রকূেত) আসহােব আরাফ বা আরাফবাসীেদর উেলখ করা হেয়েছ । েসই জেনয এর নামকরণ করা হেয়েছ
আল আরাফ। অনয কথায় বলা যায়, এ সূরােক সূরা আল আরাফ বলার তাৎপযর হেচ এই েয, েয সূরার মেধয আ’রােফর কথা বলা হেয়েছ ,এটা
েসই সূরা।

ননননননন ননন-ননন
এ সূরার আেলাচয িবষেয়র পিত দৃিষপাত করেল সুসষভােব অনুভূত হেয় েয, এ সূরািট সূরা আন’আেমর পায় সমসমেয় নািযল হয়। অবশয এটা
আেগ না আন’আম আেগ নািযল হয় তা িনশয়তার সােথ িচিহত করা যােব না। তেব এ সূরায় পদত ভাষেণর বাচনভংগী েথেক এিট েয ঐ সমেয়র
সােথ সমিকরত তা পিরষার বুঝা যায়। কােজই এর ঐিতহািসক পটভূিম অনুধাবন করার জেনয সূরা আন’আেমর শরেত েয ভূিমকা েলখা হেয়েছ
তার ওপর একবর নজর বুিলেয় েনয়া যেথষ হেব।

ননননননন নননন
এ সূরার ভাষেণর েকনীয় িবষয়বস হেচ িরসালােতর পিত ঈমান আনার দাওয়াত । আলাহ েপিরত রসূেলর আনুগতয করার জেনয েশাতােদর উদদ
করাই এর সমগ আেলাচনার েমৌল উদশয ও লকয। িকন এ দাওয়াত সতকর করার ও ভয় েদখােনার ভাবধারাই ফূেট উেঠেছ েবশী কের।কারণ
এখােন যােদরেক সেমাধন করা হেয়েছ (অথরাৎ মকাবাসী) তােদরেক বুঝােত বুঝােত দীঘরকাল অিতবািহত হেয় িগেয়িছল। তােদর সুল শবণ ও
অনুধাবন শিক, হঠকািরতা, েগায়াতুরমী ও একগঁেয় মেনাভাব চূড়ান পযরােয় েপঁৌেছ িগেয়িছল। যার ফেল রসূেলর পিত তােদরেক সেমাধন করা বন
কের িদেয় অনযেদরেক সেমাধন করার হকুম অিচেরই নািযল হেত যািচল। তাই বুঝাবার ভংগীেত নবুওয়াত ও িরসালােতর দাওয়াত েপশ করার সােথ
সােথ তােদরেক একথাও জািনেয় েদয়া হেচ েয, নবীর েমাকািবলায় েতামরা েয কমরনীিত অবলমন কেরেছা েতামােদর আেগর িবিভন মানব সমদায়ও
িনেজেদর নবীেদর সােথ অনুরপ আচরণ অবলমন কের অতযন মারাতক পিরণিতর সমুখীন হেয়িছল। তারপর বতরমােন েযেহতু তােদরেক যুিক পমাণ
সহকাের দাওয়াত েদবার পেচষা চূড়ান পযরােয় উপনীত হেত চেলেছ। তাই ভাষেণর েশষ অংেশ তােদর িদক েথেক মূখ িফিরেয় আহিল িকতাবেদরেক
সেমাধন করা হেয়েছ । আর এক জায়গায় সারা দিনয়ার মানুষেক সাধারণভােব সেমাধন করা হেয়েছ। এ েথেক এরপ আভাস পাওয়া যােচ েয,
এখন িহজরত িনকটবতরী এবং নবীর জেনয তার িনটকতর েলাকেদরেক সেমাধন করার যুগ েশষ হেয় আসেছ।
এ ভাষেণর এক পযরােয় ইহিদেদরেকও সেমাধন করা হেয়েছ । তাই এই সােথ িরসালাত ও নবুওয়ােতর দাওয়ােতর আর একিট িদকও সুষষ কের
তুেল ধরা হেয়েছ। নবীর পিত ঈমান আনার পর তঁার সােথ মুনািফকী নীিত অবলমন করার, আনুগতয ও অনুসৃিতর অংগীকার করার পর তা ভংগ
করার এবং সতয ও িমথযার পাথরকয সমেকর অবিহত হেয় যাওয়ার পর িমথযার পিত সাহাযয সহেযািগতা দােনর কােজ আপাদমসক ডুেব থাকার
পিরনাম িক, তাও এেত জািনেয় েদয়া হেয়েছ।

Bismillahirrah Maanirraheem
সসসস সসসস সসসসসসস সসসস সসসস সসস সসসসসসস, সসস সসসসস।
﴾7:1﴿

(7:1) Alif-Lam-Mim-Sad.

‫المص‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
১) আিলফ,লাম,মীম, েসায়াদ ৷

‫ج ِمْنُه ِلُتْن كِذَر ِب كِه َوِذْك كَرى‬
ٌ ‫حَر‬
َ ‫ك‬
َ ‫صْدِر‬
َ ‫ن ِفي‬
ْ ‫ل َيُك‬
َ ‫ك َف‬
َ ‫ل ِإَلْي‬
َ ‫ب ُأْنِز‬
ٌ ‫ِكَتا‬
﴾7:2﴿ ‫ن‬
َ ‫ِلْلُمؤِْمِني‬
(7:2) This is a Book revealed to you. *1Let there be no impediment in your heart about
it. *2 (It has been revealed to you) that you may thereby warn [the unbelievers], that it
may be a reminder to the believers. *3
*1. The word 'Book', in this context, signifies this very surah, al-A'raf.
*2. The Prophet (peace be on him) is directed to preach his Message without fear and
hesitation, and to disregard his opponents' response. Such opponents may well be offended by
his preaching of the Message, or may, hold it to ridicule, or go about maliciously twisting it, or
acting with greater hostility. All this notwithstanding, the Message of Islam must be preached.
The Arabic word haraj (which we have translated as straitens), signifies an intractable bush.
(See Ibn Manzur. Lisan al 'Arab and Firuzabadi, al-qamus, q.v. 'Harajah'.) 'Straitens or
constriction in the breast' refers to the reluctance of a person to go ahead in the face of
opposition. The following Qur'anic verse would seem to allude to this mental state of the
Prophet (peace he on him): 'We do indeed know how your heart feels distressed at what they
say' (al-Hijr 15: 97). What painfully concerned the Prophet (peace be on him) was to find out
how he could direct a people, whose adamancy and opposition to truth had reached such high
proportions, to the Right way. The same state of mind is again reflected in the Qur'anic verse:
'Perhaps you might feel inclined to part with a portion of what has been revealed to you, and
your heart feels straitened lest they, say: "Why is a treasure not sent down unto him; or why
does an angel not come with him?" (Hud 11:12).
*3. The main purpose of this surah is to jolt the people out of their heedlessness and to warn
them of the dire consequences that will follow if they reject the call of the Prophet (peace be on
him). Additionally, this surah also seeks to serve as a reminder to the believers - a purpose
which is achieved, incidentally, by the warning made to the unbelievers.
(৭:২) এিট েতামার পিত নািযল করা একিট িকতাব৷ ১ কােজই েতামার মেন েযন এর সমেকর েকান সংেকাচ না থােক৷
উেদশয হেচ, এর মাধযেম তুিম (অসীকারকারীেদরেক )ভয় েদখােব এবং মুিমনেদর জেনয এিট হেব একিট সারক৷ ৩

এিট নািযল করার

১. িকতাব বলেত এখােন এই সূরা আরাফেকই বুেঝােনা হেয়েছ৷
২. অথরাৎ েকান পকার সংেকাচ, ইতসতভাব ও ভীিত ছাড়াই এেক মানুেষর কােছ েপৌিছেয় দাও৷ িবরদবাদীরা এেক িকভােব গহণ করেব তার েকান পেরায়া করেব না
৷তারা েকেপ যায় যাক, িবদপ কের করক, নানান আেজবােজ কথা বেল বলুক এবং তােদরেক শততা আেরা েবেড় যায় যাক৷ েতামরা িনিশেন ও িনসংেকােচ তােদর
কােছ এ পয়গাম েপৌিছেয় দাও৷ এর পচাের একটুও গিড়মিস কেরা না৷
এখােন েয অেথর আমরা সংেকাচ শবিট বযবহার কেরিছ, মূল ইবারেত তার জেনয----- হারজ শব বযবহত হেয়েছ৷ 'হারজ' শেবর আিভধািনক অথর হেচ, এমন একিট

ঘন েঝাপঝাড়, যার মেধয িদেয় এিগেয় চলা কিঠন৷ মেন 'হারজ' হবার মােন হেচ এই েয, িবেরািধতা ও বাধা -িবপিতর মধয িদেয় িনেজর পথ পিরষার না েদেখ
মানুেষর মন সামেন এিগেয় চলেত পাের না, েথেম যায়৷ কুরআন মজীেদর িবিভন সােন এ িবষয়বসেক ---------------শেবর মাধযেম পকাশ করা হেয়েছ৷ েযমন
বলা হেয়েছঃ
------------------"েহ মুহামাদ! আিম জািন এরা েযসব কথা বেল েবড়ােচ তােত েতামার মন সংকুিচত হেয় যােচ"৷ অথরাৎ যারা িজদ, হঠকািরতা, ও সতয িবেরািধতায় এ পযরােয় েনেম
এেসেছ েয তােদরেক িকভােব েসাজা পেথ আনা যােব, এ িচনায় তুিম েপেরশান হেয় পেড়েছা৷ অনযত বলা হেয়েছঃ
-------------------------------"এমন েযন না হয় েয, েতামার দাওয়ােতর জবােব তারা েতামার কােছ েকান ধনভাণার অবতীণর হয়িন েকন? েতামার সােথ েকান েফেরশতা আেসিন েকন? একথা
বলেব েভেব তুিম েতামার পিত নািযল করা েকান েকান অহী পচার করা বাদ িদেয় েদেব এবং িববত েবাধ করেব৷"
৩. এর অথর হেচ , এ সূরার আসল উেদশয েতা ভয় েদখােনা৷ অথরাৎ রসূেলর দাওয়াত গহণ না করার পিরণাম সমেকর েলাকেদরেক সতকর করা ও ভয় েদখােনা এবং
গােফলেদরেক সজাগ করা ৷ তেব এিট েয মুিমনেদর জেনয সারকও , (অথরাৎ তােদরেক সরণ কিরেয় েদয়) েসিট এর একিট আনুসিঙক লাভ, ভীিত পদশরেনর
মাধযেম এিট আপনা আপিনই অিজরত হেয় যায়৷

‫ل َمككا‬
ً ‫ن ُدوِنكِه َأْوِلَيككاَء َقِلي‬
ْ ‫ل َتّتِبُعوا ِم‬
َ ‫ن َرّبُكْم َو‬
ْ ‫ل ِإَلْيُكْم ِم‬
َ ‫اّتِبُعوا َما ُأْنِز‬
﴾7:3﴿ ‫ن‬
َ ‫َتَذّكُرو‬
(7:3) [0 men!] Follow what has been revealed to you from your Lord and follow no
masters other than Him. *4 Little are you admonished.
*4. The central theme of the whole surah, and of the present discourse, is the guidance which
man needs in order to live a wholesome life, the knowledge which he requires in order to
understand the reality of the universe and his own being and the purpose of his existence; the
principles which he needs to serve as the basis for morality and social life as well as culture and
civilization. In this regard man should look to God alone and follow exclusively, the Guidance
which He has communicated to mankind through His Messenger. To look to anyone other than
God is dangerous for it has always spelled disaster in the past, and will always spell disaster in
the future. In this verse the word awliya' (masters) refers to those whom one follows, regardless
of whether one idolizes or curses them, and whether one acknowledges their patron ship or
strongly, denies it. For further explanation see Tafhim al-Qur'an, al-Shurai 42, n.6.
(৭:৩) েহ মানব সমাজ! েতামােদর রেবর পক েথেক েতামােদর ওপর যা িকছু নািযল করা হেয়েছ তার অনুসরণ কেরা এবং িনেজেদর রবেক
বাদ িদেয় অনয অিভভাবকেদর অনুসরণ কেরা না৷ ৪ িকন েতামরা খুব কমই উপেদশ েমেন থােকা৷
৪. এিট হেচ এ সূরার েকনীয় আেলাচয িবষয়৷ এ ভাষণিটেত েয আসল দাওয়াত েদয়া হেয়েছ েসিট হেচঃ দিনয়ায় মানুেষর জীবন যাপেনর জেনয েয েহদায়াত ও
পথ-পদশরনার পেয়াজন , িনেজর ও িবশজাহােনর সরপ এবং িনেজর অিসেতর উেদশয ও লকয অনুধাবন করার জেনয তার েয জােনর পেয়াজন এবং িনেজর আচার
-আচারণ , চিরত, -ৈনিককতা,সমািজক ও সাংসৃিতক জীবন ধারােক সিঠক িভিতর ওপর সুপিতিষত করার জেনয েস েযসব মূলনীিতর মুখােপকী েসগেলার জেনয
তােক একমাত আলাহ বাবুল আলামীনেকই িনেজর পথপদশরক িহেসেব েমেন িনেত হেব এবং আলাহ তার রসূেলর মাধযেম েয েহদায়াত ও পথ-পদশরনী িদেয়েছন
একমাত তারই অনুসরণ করেত হেব৷ আলাহেক বাদ িদেয় অনয কােরার িদেক পথ -িনেদরশনা লাভ করার জনয মুখ িফরােনা এবং তার েনতৃেতর আওতায় িনেজেক
সমপরণ করা মানুেষর একিট েমৌিলক ভান কমরপদিত ছাড়া আর িকছুই নয়৷ এর পিরণােম মানুষেক সব সময় ধংেসর সমুখীন হেত হেয়েছ এবং ভিবষযেতও তােক
সবসময় এই একই পিরণােমর সমুখীন হেত হেব৷
এখােন "আউিলয়া" (অিভভাবকগণ) শবিট এ অেথর বযবহত হেয়েছ েয, মানুষ সাধারণত যার িনেদরেশ ও েনতৃেত চেল তােক আসেল িনেজর 'ওিল' তথা অিভভাবেক
পিরণত কের৷ মুেখ েস তার পশংসা করেত পাের বা তার পিত অিভশাপও বষরণ করেত পাের, আবার তার অিভভাবকেতর সীকৃিত িদেত পাের বা কেঠারভােব তা অসীকার ও
করেত পাের৷ (আেরা বযাখার জেনয েদখুন আশশূরা , টীকা নং ৬)

﴾7:4﴿

َ ‫سَنا َبَياًتا َأْو ُهْم َقاِئُلو‬
‫ن‬
ُ ‫جاَءَها َبْأ‬
َ ‫ن َقْرَيٍة َأْهَلْكَناَها َف‬
ْ ‫َوَكمْ ِم‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(7:4) How many a township We have destroyed! Our scourge fell upon them at night, or
when they were taking midday rest.
(৭:৪) কত জনপদ আিম ধংস কের িদেয়িছ৷ তােদর ওপর আমার আযাব অকসাত ঝঁািপেয় পেড়িছল রােতর বলা অথবা িদেনর েবলা যখন তারা
িবশামরত িছল৷

﴾7:5﴿

َ ‫ظاِلِمي‬
‫ن‬
َ ‫ن َقاُلوا ِإّنا ُكّنا‬
ْ ‫ل َأ‬
ّ ‫سَنا ِإ‬
ُ ‫جاَءُهْم َبْأ‬
َ ‫عَواُهْم ِإْذ‬
ْ ‫ن َد‬
َ ‫َفَما َكا‬

(7:5) And when Our scourge fell upon them their only cry was: 'We are indeed
transgressors.' *5
*5. People can learn a lesson from the tragic fate of those nations that spurned God's Guidance.
and instead followed the guidance of others; and they became so degenerate that their very
existence became an intolerable burden on the earth. Eventually, God's scourge seized them.
and the earth was cleansed of their filthy existence.
The words uttered by, the evil-doers: 'We are indeed transgressors', emphasizes two points:
First: That it is pointless for one to realize and repent of one's wrong-doing after the time for
such repentance is past. Individuals and communities who allow the term granted to them to be
wasted in heedlessness and frivolity, who turn a deaf car to those who invite them to the truth,
have so often been overtaken in the past by God's punishment.
Second: There are numerous instances of individuals as well as communities which
incontrovertibly prove that when the wrong-doings of a nation exceed a certain limit, the term
granted to it expires and God's punishment suddenly overtakes it. And once a nation is
subjected to God's punishment, there is no escape from it. Since human history abounds in such
instances, there is no reason why people should persist in the same iniquity, and repent only
when the time for repentance has passed.
(৭:৫) আর যখন আমার আযাব তােদর ওপর আপিতত হেয়িছল তখন তােদর মুেখ এ ছাড়া আর েকান কথাই িছল না েয, সিতযই আমরা জােলম
িছলাম৷ ৫
৫. অথরাৎ েতামােদর িশকার জনয এমন সব জািতর দৃষান রেয়েছ যারা আলাহর েহদায়াত েথেক মুখ িফিরেয় িনেয় মানুষ ও শয়তােনর েনতৃেত জীবন পেথ এিগেয় চেলেছ
৷অবেশেষ তারা এমনভােব িবপথগামী ও িবকারগস হেয় েগেছ যার ফেল পৃিথবীেত তােদর অিসত এক দঃসহ অিভশােপ পিরণত হেয়েছ এবং আলাহর আযাব এেস তােদর
নাপাক অিসত েথেক দিনয়ােক মুক কেরেছ৷
েশষ বাকযিটর উেদশয দিট িবষেয় সতকর কের েদয়াঃ
একঃ সংেশাধেনর সময় অিতকম হবার পর কােরার সেচতন হওয়া এবং িনেজর ভূল সীকার করা অথরহীন৷ েয বযিক ও জািত গািফলিতেত িলপ ও েভােগর েনশায় মত
হেয় েসচাচারী জীবন যাপেনর মধয িদেয় আলাহর েদয়া অবকাশ ও সুেযাগ হািরেয় বেস, সেতযর আহবায়কেতর আওয়াজ যােদর অেচতন কােনর পদরায় একটুও সাড়া
জাগায় না এবং আলাহর হাত মজবুতভােব পাকড়াও করার পরই যারা সেচতন হয় তােদর চাইেত বড় নাদান ও মুখর আর েকউ েনই৷
দইঃ বযিক ও জািতেদর জীবেনর দ একিট নয়, অসংখয দৃষান েতামােদর সামেন এেস েগেছ ৷ কােরার অসৎ কেমরর েপয়ালা যখন পিরপুণর হেয় যায় এবং তার অবকােশর
সীমা েশষ হেয় যায় তখন অকসাৎ এক সময় আলাহ তােক পাকড়াও কেরন৷ আর আলাহ একবার কাউেক পাকড়াও করার পর আর তার মুিক লােভর েকান পথই থােক
না৷ তাছাড়া মানব জািতর ইিতহােস এ ধরেনর ঘটনা এক দ বার নয় , শত শত বার, হাজার হাজার বার ঘেট েগেছ৷ এ েকেত মানুেষর জেনয বারবার েসই একই ভুেলর
পুনরাবৃিত করার েযৌিককতা েকাথায়? সেচতন হবার জেনয েস েকনই বা েসই েশষ মুহূেতররই অেপকা করেত থাকেব যখন েকবলমাত আেকপ করা ও মমরজালা েভাগ

করা ছাড়া সেচতন হবার আর েকান সাথরকতাই থােক না৷

﴾7:6﴿

َ ‫سِلي‬
‫ن‬
َ ‫ن اْلُمْر‬
ّ ‫سَأَل‬
ْ ‫ل ِإَلْيِهْم َوَلَن‬
َ‫س‬
ِ ‫ن ُأْر‬
َ ‫ن اّلِذي‬
ّ ‫سَأَل‬
ْ ‫َفَلَن‬

(7:6) So We shall call to account those to whom Messengers were sent, *6 and We shall
call to account the Messengers (to see how dutifully they conveyed the Message, and
how people responded to it). *7
*6. The words 'call to account' refers to the questioning people will be subjected to on the Day
of Judgement. For it is the reckoning on the Day, of Judgement that really matters. Punishment
dealt upon corrupt individuals and communities in this world does not constitute their true
punishment. Punishment in this world is no more than what happens when a criminal, who has
been strutting scot-free, is suddenly arrested. The arrest constitutes no more than depriving the
criminal of the opportunity to perpetrate further crimes. The annals of history are filled with
instances where corrupt nations have been punished, proving that man has not been granted
absolute licence to go about doing whatever he pleases. Rather, there is a Power above all that
allows man to act freely but only to a certain extent, no more. And when man exceeds those
limits, that Power administers a series of warnings in order that he might heed the warnings and
give up his wickedness. But when man fails totally to respond to such warnings, he is punished.
Anyone who considers the events of history, will conclude that the Lord of the universe must
have certainly appointed a Day of Judgement in order to hold the wrong-doers to account for
their actions and to punish them. That the Qur'an refers to the recurrent punishment of wicked
nations as an argument in support of the establishment of the final judgement in the Hereafter is
evidenced by the fact that the present verse - verse 6 - opens with the word so'.
*7. This shows that on the Day of Judgement Prophethood will be the main basis of reckoning.
On the one hand, the Prophets will be questioned about the efforts they made to convey God's
Message to mankind. On the other hand, the people to whom the Prophets were sent will be
questioned about their response to the message. The Qur'an is not explicit about how
judgements will be made with regard to individuals and communities who did not receive God's
Message. It seems that God has left judgement - to borrow a contemporary judicial expression reserved. However, with regard to individuals and communities who did receive God's Message
through the Prophets, the Qur'an states explicitly, that they will have no justification
whatsoever to put forward a defence of their disbelief and denial, of their transgression and
disobedience. They are doomed to be east into Hell in utter helplessness and dejection.
(৭:৬) কােজই যােদর কােছ আিম রসূল পািঠেয়িছ তােদরেক অবিশয িজজাসাবাদ করেবা৷ ৬ এবং রসূলেকও িজজাসা করেবা (তারা পয়গাম েপৌিছেয়
েদবার দািয়ত কতটুকু সমাদন কেরেছ এবং এর িক জবাব েপেয়েছ) ৭
৬. এখােন িজজাসাবাদ বলেত িকয়ামেতর িহেসব -িনেকশ বুঝােনা হেয়েছ৷ অসৎ বযিকও জািতেদর ওপর দিনয়ায় েযসব আযাব আেস েসগেলা তােদর অসৎকেমরর চূড়ান
ফল নয় এবং েসগেলা তােদর অপরােধর পূণর শািসও নয়৷ বরং এটােক এ অবসার পযরােয় েফলা েযেত পাের েয, একজন অপরাধী সাধীনভােব অপরাধ কের েবড়ািচল,

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
তােক অকসাত েগফতার কের তার আেরা েবশী জুলুম , অনযায় ও িফতনা-ফাসাদ সৃিষ করার সুেযাগ িছিনেয় েনয়া হেলা৷ মানব জািতর ইিতহােস এ ধরেনর েগফতারীর
অসংখয নজীর পাওয়া যায়৷ এ নজীরগেলা এ কথারই এক একিট সুষষ আলামত েয, মানুষেক এ দিনয়ায় েযখােন চের েবড়াবার এবং যােচ তাই কের েবড়াবার জনয
লাগামহীন উেটর মেতা সাধীনভােব েছেড় েদয়া হয়িন৷ বরং সবার ওপের েকান এক শিক আেছ েয একই িবেশষ সীমােরখা পযরন তার রিশ আলগা কের রােখ৷ অসৎ পবণতা
েথেক িফের আসার জেনয এেকর পর এক সতকর িসগনযাল িদেয় েযেত থােক৷ আর যখন েদখা যায় ,েস েকানকেমই সৎ পেথ িফের আসেছ না তখন হঠাৎ এক সময় তােক
পাকড়াও কের েফেল৷ তারপর এ ঐিতহািসক অিভজতার ওপর িচনা-ভাবনা করেল েকান বযিক সহেজই এ িসদােন উপনীত হেত পাের েয , এ িবশ জাহােনর ওপর েয
শাসনকতরা শাসণ চলেছ িতিন িনশয়ই এমন একিট সময় িনধরািরত কের েরেখ থাকেবন যখন এসব অপরাধীেদর িবচার করা হেব এবং িনেজেদর কমরকােণর জেনয তােদর
জবাবািদিহ করেত হেব৷ এ কারেণ ওপেরর েয আয়াতিটেত পািথরব আযােবর কথা বলা হেয়েছ , তােক কােজই শবিট দারা পরবতরী আয়ােতর সােথ সংযক করা হেয়েছ৷
অথরাৎ পািথরব আযাব বার বার আসা েযন আেখরােত জবাবিদিহ িনশয়তার একিট পমাণ৷
৭. এ েথেক জানা েগেলা, আেখরােত িজজাসাবাদ সরাসির িরসালােতর িভিতেহই অনুিষত হেব৷ একিদেক নবীেদরেক িজজাসা করা হেব, মানব সমদােয়র কােছ আলাহর
পয়গাম েপৌিছেয় েদবার জেনয েতামরা িক িক কাজ কেরেছা? অনযিদেক যােদর কােছ, রসূেলর দাওয়াত েপৌেছ েগেছ তােদরেক িজজাসা করা হেব, এ দাওয়ােতর সােথ
েতামরা িক বযবহার করেছা?েযসব বযিক বা সমদােয়র কােছ নবীেদর বাণী েপৌেছনী তােদর মামলার িনষিত িকভােব হেব, েস সমেকর কুরআন মজীদ আমােদর িকছুই
বেলিন৷ এ বযাপাের আলাহ তঁার ফায়সালা সংরিকত কের েরেখেছন৷ িকন েযসব বযিক ও সমদােয়র কােছ নবীেদর িশকা েপৌেছ েগেছ তােদর সমেকর কুরআন পিরষার
েঘাষণা কেরেছ েয তারা িনেজেদর কুফরী , অবাধযতা , অসীকৃিত, ফািসকী, ও নাফরমানীর সপেক েকান যুিক-পমাণ েপশ করেত পারেব না৷ আর লজায় আেকেপ ও
অনুতােপ কপাল চাপড়ােত চাপড়ােত জাহানােমর পােথ এিগেয় চলা ছাড়া িকয়ামেতর িদন তােদর জেনয িদতীয় েকান পথ থাকেব না৷

﴾7:7﴿

َ ‫غاِئِبي‬
‫ن‬
َ ‫عَلْيِهْم ِبِعْلٍم َوَما ُكّنا‬
َ ‫ن‬
ّ‫ص‬
ّ ‫َفَلَنُق‬

(7:7) Then We shall narrate to them with knowledge the whole account. For surely, We
were not away from them.
(৭:৭) তারপর আিম িনেজই পূণর জান সহকাের সমুদয় কাযরািববরণী তােদর সামেন েপশ করেবা৷ আিম েতা আর েসখােন অনুপিসত িছলাম না!

﴾7:8﴿

َ ‫حو‬
‫ن‬
ُ ‫ك ُهُم اْلُمْفِل‬
َ ‫ت َمَواِزيُنُه َفُأوَلِئ‬
ْ ‫ن َثُقَل‬
ْ ‫ق َفَم‬
ّ‫ح‬
َ ‫ن َيْوَمِئٍذ اْل‬
ُ ‫َواْلَوْز‬

(7:8) The weighing on that Day will be the true weighing: *8 those whose scales are
heavy will prosper.
*8. This means that when the Balance is fixed on the Day of Judgement, 'truth' and weight will
be identical. The more truth one has to one's credit, the more truth one has to one's credit, the
more the weight in one's scale; and vice versa. One will be judged solely on the basis of this
weight. In other words, no consideration other than truth will enter into the calculation. A life
of falsehood, however long it lasted, and however full of worldly achievements, will carry no
weight at all. Weighed in the Balance, the devotees of falsehood will discover that their lifelong deeds do not even weigh so much as a birds feather. The same point has been expatiated
upon in al-Kahf 18:103-5 : 'Shall We tell you of those who are greatest losers in respect of their
deeds? It is those whose efforts have been wasted in this life while they kept believing that they
were acquiring good by their deeds. they are those who deny the Signs of their Lord and the
fact of their having to meet Him (in the Hereafter). So their works are in vain and we shall
attach no weight to them on the Day of Judgment.'
(৭:৮) আর ওজন হেব েসিদন যথাথর সতয৷ ৮ যােদর পালা ভারী হেব তারাই হেব সফলকাম।
৮. অথরাৎ আলাহর নযায় তুলাদেণ েসিদন ওজন ও সতয হেব পরসেরর সমাথরক৷ সতয বা হক ছাড়া েকান িজিনেসর েসখােন েকান ওজন থাকেব না৷ আর ওজন ছাড়াও
েকান িজিনস সতয সাবযস হেব না৷ যার সােথ যতটুকু সতয থাকেব েস হেব ততটুকু ওজনদান ও ভারী৷ ওজেনর পিরপিকেতই সব িকছু ফায়সালা হেব৷ অনয েকান িজিনেসর

িবনুমাতও মযরাদা ও মূলয েদয়া হেব না৷ িমথযা ও বািতেলর িসিতকাল দিনয়ায় যতই দীঘর ও িবসৃত থাকুক না েকন এবং আপাতদৃিষেত তার েপছেন যতই জঁাকজমক, শানশওকত ও আড়মর েশাভা পাক না েকন, এ তুলাদেণ তা এেকবােরই ওজনহীন পমািণত হেব৷ বািতলপনীেদরেক যখন এ তুলাদেণ ওজন করা হেব, তারা িনেজেদর েচােখই
েদেখ েনেব দিনয়ায় দীঘরকাল ধের তারা যা িকছু কেরিছল তার ওজন একিট মািছর ডানার সমানও নয়৷ সূরা কাহােফর েশষ িতনিট আয়ােত একথািটই বলা হেয়েছ৷ েসখােন
বলা হেয়েছ যারা দিনয়ার জীবেন সবিকছু দিনয়ারই জেনয কের েগেছ এবং আলাহর আয়াত অসীকার কের এ েভেব কাজ কেরেছ েয, পরকাল বেল িকছু েনই, কােজই
কােরার কােছ িনেজর কােজর িহেসব িদেত হেব না, আেখরােত আিম তােদর কাযরকলােপর েকান ওজন েদেবা না৷

‫سُهْم ِبَمككا َكككاُنوا ِبَآَياتَِنككا‬
َ ‫سُروا َأْنُف‬
ِ‫خ‬
َ ‫ن‬
َ ‫ك اّلِذي‬
َ ‫ت َمَواِزيُنُه َفُأوَلِئ‬
ْ ‫خّف‬
َ ‫ن‬
ْ ‫َوَم‬
﴾7:9﴿ ‫ن‬
َ ‫ظِلُمو‬
ْ ‫َي‬
(7:9) and those whose scales are light will be the losers, *9 for they, are the ones who
have been unjust to Our signs.
*9. For a full appreciation of this point it is necessary, to remember that man's deeds will be
classified into positive and negative categorics. The positive category will consist of knowing
the truth, believing in it, acting upon it, and striving to make it prevail. It is such acts alone
which will have weight in the Hereafter. Conversely, whenever someone follows and goes after
lusts or blindly follows other humans or satans, his acts will be reckoned as 'negative'. Such
acts will not only be of no value at all, but will also have the effect of reducing the total weight
of one's positive acts.
Thus, a man's success in the Hereafter requires that his good acts outweigh his evil ones to such
an extent that even if his evil acts cause the effacement of some of his good acts, he should still
have enough left in his credit to ensure his scale is inclined towards the positive. As for the man
whose evil acts outweigh his good acts, he will be like the bankrupt businessman who, even
after spending all his assets, remains under the burden of debt.
(৭:৯) এবং যােদর পালা হালকা হেব তারা িনেজরাই হেব িনেজেদর কিত সাধনকারী৷
চািলেয় িগেয়িছল৷

কারণ তারা আমার আয়ােতর সােথ জােলম সূলভ আচরণ

৯. এ িবষয়িটেক এভােব িবেশষণ করা েযেত পাের েয, মানুেষর জীবেনর সমগ কাযরাবলী দিট অংেশ িবভক হেব৷ একিট ইিতবাচক বা সৎ কাজ এবং অনযিট েনিতবাচক বা
অসৎ কাজ৷ ইিতবাচক অংেশর অনভুরক হেব সতযেক জানা ও েমেন েনয়া এবং সেতযর অনুসরণ কের সেতযর খািতের কাজ করা৷ আেখরােত একমাত এিটই হেব ওজনদান ,
ভারী ও মূলযবান৷অনযিদেক সতয েথেক গািফল হেয় অথবা সতয েথেক িবচূযত হেয় মানুষ িনেজর নফস- পবৃিত বা অনয মানুেসর ও শয়তােনর অনুসরণ কের অসতয অংশিট
েকবল েয, মূলযহীনই হেব তাই নয় বরং এটাই মানুেষর ইিতবাচক অংেশর মযরাদাও কিমেয় েদেব৷
কােজই মানুেষর জীবেনর সমুদয় কাযরাবলীর ভাল অংশ যিদ তার মন অংেশর ওপর িবজয় লাভ কের কিতপূরণ িহেসেব অেনক িকছু েদবার পরও তার িহেসেব িকছু না িকছু
অবিশষ থােক , তেবই আেখরােত তার সাফলয লাভ করা সমব ৷ আর েয বযিকর জীবেনর মন কাজ সমস ভাল কাজেক মূলযহীন কের েদেব তার অবসা হেব েসই েদউিলয়া
বযবসায়ীর মত যার সমুদয় পূঁিজ কিতপূরণ ও দাবী পূরণ করেত করেতই েশষ হেয় যায় এবং এরপরও িকছু িকছু দাবী তার িজমায় অনাদায়ী েথেক যায়৷

َ ‫شككُكُرو‬
‫ن‬
ْ ‫ل َما َت‬
ً ‫ش َقِلي‬
َ ‫جَعْلَنا َلُكْم ِفيَها َمَعاِي‬
َ ‫ض َو‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫َوَلَقْد َمّكّناُكْم ِفي ا‬
﴾7:10﴿

(7:10) We assuredly established you in the earth and arranged for your livelihood in it.
Little do you give thanks.
(৭:১০) েতামােদরেক আিম কমতা-ইখিতয়ার সহকাের পৃিথবীেত পিতিষত কেরিছ৷ এবং েতামােদর জেনয এখােন জীবন ধারেণর উপকরণ সরবরাহ

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
কেরিছ৷িকন েতামরা খুব কমই েশাকর গজারী কের থােকা৷

ّ ‫جُدوا ِإ‬
‫ل‬
َ‫س‬
َ ‫لَدَم َف‬
َِ ‫جُدوا‬
ُ‫س‬
ْ ‫لِئَكِة ا‬
َ ‫صّوْرَناُكْم ُثّم ُقْلَنا ِلْلَم‬
َ ‫خَلْقَناُكْم ُثّم‬
َ ‫َوَلَقْد‬
﴾7:11﴿ ‫ن‬
َ ‫جِدي‬
ِ ‫سا‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ن ِم‬
ْ ‫س َلْم َيُك‬
َ ‫ِإْبِلي‬
(7:11) We initiated your creation, then We gave you each a shape, and then We said to
the angels: 'Prostrate before Adam.') *10They all prostrated except Iblis: he was not one
of those who fell Prostrate.
*10. These verses should he read in conjunction with al-Baqarah 2: 30-9. The words in which
the command to prostrate before Adam is mentioned may give rise to the misapprehension that
it was Adam as such who is the object of prostration. This misapprehension should be removed
by what has been said here. The text makes it very clear that prostration before Adam was in
his capacity, as the representative of all mankind and not in his personal capacity.
The successive stages of man's creation mentioned in the present verse ('We initiated your
creation, then We gave you each a shape'), means that God first planned the creation of man,
made ready the necessary materials for it, and then gave those materials a human form. Then,
when man had assumed the status of a living being, God asked the angels to prostrate before
him. The Qur'an says: And recall when your Lord said to the angels: 'I am about to create man
from clay. When I have fashioned him (in due proportion) and breathed into him of My spirit
then fall You down in prostration before him' (Sad 38: 71-2).
Mention has been made in these verses, though in a difterent way, of the same three stages of
creation: man's creation from clay; giving him a proportionate human shape; and bringing
Adam into existence by breathing into him God's spirit. The following verses also have the
same import:
And recall when your Lord said to the angels: 'I am about to create man, from sounding clay
moulded into shape from black mud. When I have fashioned him (in due proportion) and
breathed into him of My spirit, fall you all down in prostration before him'(al-Hijr 15: 28-9).
It is quite difficult for one to appreciate fully the details of the origin of man's creation. We
cannot fully grasp how man was created out of the elements drawn from the earth; how he was
given a form and a well-proportioned one at that and how God's Spirit was breathed into him. It
is quite obvious, though, that the Qur'anic version of man's creation is sharply at odds with the
theory, of creation propounded by Darwin and his followers in our time. Darwinism explains

man's creation in terms of his evolution from a variety of non-human and sub-human stages
culminating in homo sapiens. It draws no clear demarcation line that would mark the end of the
non-human stage of evolution and the beginning of the species called 'man'. Opposed to this is
the Qur'anic version of man's creation where man starts his career from the very beginning as
an independent species, having in his entire history no essential relationship at all with any nonhuman species. Also, man is conceived as having been invested by God with full consciousness
and enlightenment from the very start of his life.
These are two different doctrines regarding the past of the human species. Both these doctrines
give rise to two variant conceptions about man. If one were to adopt the Darwinian doctrine,
man is conceived as essentially a species of the animal genre. Acceptance of this doctrine leads
man to derive the guiding principles of his life, including moral principles, from the laws
governing animal life. Given the basic premises of such a doctrine, animal-like behaviour is to
be considered quite natural for man. The only, difference between man and animal lies in the
fact that animals act without the help of the tools and instruments used by humans, and their
behaviour is devoid of culture.
Were one to accept the other doctrine, man would be conceived as a totally, distinct category.
Man is no longer viewed simply as a talking or gregarious animal. He is rather seen as God's
Vicegerent on earth. What distinguishes man from other animals, according to this doctrine, is
not his capacity to speak or his gregariousness but the moral responsibility and trust with which
he has been invested. Thus, one's whole perspective with regard to man and everything relating
to him is changed. Rather than looking downwards to species of being lower than the human,
man will turn his gaze upwards. It is claimed by some that however dignified the Qur'anic
doctrine might be from a moral and psychological point of view, Darwinism should still be
preferred on the basis of its being scientifically established. However, the very claim that
Darwinism has been scientificaly established is itself questionable. Only those who have a very
superficial acquaintance with modern science can entertain the misconception that the
Darwinian theory of evolution has been scientifically, established. Those who know better are
fully, aware that despite the vast paraphernalia of evidence in its support, it remains merely a
hypothesis. The arguments marshalled in support of this theory at best succeed in establishing it
as a possibility, but certainly not as an incontrovertible fact. Hence at the most what can he said
is that the evolution of the species is as much a possibility as its direct creation.
(৭:১১) আিম েতামােদর সৃিষর সূচনা করলাম তারপর েতামােদর আকৃিত দান করলাম অতপর েফেরশতােদর বললাম,আদমেক িসজদা কেরা৷
িনেদরশ অনুযায়ী সবাই িসজদা করেলা৷ িকন ইবলীস িসজদাকারীেদর অনরভুক হেলা না৷

১০

১০. তূলনামূলক পােঠর জেনয সূরা বাকারার ৪ রকূ েদখুন (আয়াত ৩০েথেক ৩৯)৷
সূরা বাকারায় েযসব শব সমনেয় িসজদার আেদশ উেলখ করা হেয়েছ তা েথেক সেনহ হেত পাের েয, িনছক এক বযিক িহেসেবই আদম আলাইিহস সালােমর সামেন
েফেরশতােদরেক িসজদা করার হকুম েদয়া হেয়িছল৷ িকন এখান েথেক েস সেনহ দূর হেয় যায়৷ এখােন েয বণরনা পদিত অবলমন করা হেয়েছ তা েথেক পিরষার জানা
যায়, আদম আলাইিহস সালামেক আদম িহেসেব নয় বরং মানব জািতর পিতিনিধতশীল বযিক িহেসেব িসজদা করােনা হেয়িছল৷
আর আিম েতামােদর সৃিষর সূচনা করলাম তারপর েতামােদর আকৃিতদান করলাম অতপর েফরশতােদর বললাম , আদম েক িসজদা কেরা, একথার অথর হেচ আিম পথেম

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
েতামােদর সৃিষর পিরকলনা পণয়ন করলাম ,েতামােদর সৃিষর েমৌিলক উপাদান ৈতরী করলাম তারপর েসই উপাদানেক মানিবক আকৃিত দান করলাম অতপর আদম যখন
একজন জীিবত মানুষ িহেসেব আতপকাশ করেলা তখন তােক িসজদা করার জেনয েফেরশতােদরেক হকুম িদলাম ৷ কুরআন মজীেদর অনযানয সােনও এ আয়াতিটর এরপ
বযাখযা করা হেয়েছ ৷ েযমন সূরা েসায়াদ এর পঞম রকূেত বলা হেয়েছঃ
-----------"েসই সমেয়র কথা িচনা কেরা যখন েতামার রব েফেরশতােদর বলেলন , আিম মািট েথেক একটা মানুষ ৈতরী করেবা৷ তারপর যখন আিম েসিট পুেরাপুির ৈতরী কের
েফলেবা এবং তার মেধয িনেজর রহ েথেক িকছু ফূঁেক েদেবা তখন েতামরা সবাই তার সমােন িসজদানত হেব"৷
এ আয়াতিটেত ঐ িতনিট পযরায় বিণরত হয়েছ অনয এক ভংগীমার ৷ এখােন বলা হেয়েছঃ পথেম মািট েথেক একিট মানুষ সৃিষ করা হেব, তারপর তার "তাসবীয়া" করা হেব
অথরাৎ তােক আকার -আকৃিত দান করা হেব এবং তার েদহ -েসৌষব ও শিক -সমেথরর মেধয সামঞসয িবধান করা হেব এবং সবেশেষ িনেজর রহ েথেক িকছু ফুঁেক িদেয়
আদমেক অিসত দান করা হেব৷ এ িবষয়বসিটেকই সূরা িহজর -এর তৃতীয় রকূেত িনমিলিখত শবাবলীর মাধযেম পকাশ করা হেয়েছঃ
-------------"আর েসই সময়িটর কথা ভােবা যখন েতামার রব েফেরশতােদর বলেলন , আিম ছঁােচ ঢালা শকেনা ঠনঠেন মািট েথেক একিট মানুষ সৃিষ করেবা, তারপর যখন তােক
পুেরাপুির ৈতরী কের েফলেবা তার মেধয িনেজর রহ েথেক িকছু ফুঁেক েদেবা তখন েতামরা সবাই তার সামেন িসজদানত হেব"৷
মানব সৃিষর এ সূচনা পূেবরর িবসািরত অবসা অনুধাবন করা আমােদর পেক কিঠন মািটর িপণ েথেক িকভােব মানুষ বানােনা হেলা তারপর িকভােব তােক আকার আকৃিত দান
ও তার মেধয ভারসাময কােয়ম করা হেলা এবং তার মেধয পাণ ফুঁেক েদবার ধরনিটই বা িক িছল এেসেবর পূণর তাৎপযর িবেশষণ আমােদর পেক সমব নয়৷ তবুও একথা
সুষষ েয,বতরমান যুেগ ডারউইেনর অনুসারীরা িবজােনর নােম েযসব মতবাদ েপশ করেছ মানব সৃিষর সূচনা পূেবরর অবসা সমেকর কুরআন মজীদ তার সমূণর িবপরীতধমরী
অবসার বণরনা িদেয়েছ৷ এসব মতবােদর দৃিষেত মানুষ একিট সমূণর অমানিবক বা অধরমানিবক অবসার িবিভন সর েথেক কমিববতরেনর মাধযেম মানিবক সের উপনীত হেয়েছ৷
আর এ কমিববতরন ধারার সুদীঘর পেথ এমন েকান িবেশষ িবনু েনই েযখান েথেক অমানিবক অবসার ইিত েঘাষণা কের মানব জাতীর সূচনা হেয়েছ বেল দাবী করা েযেত
পাের৷ িবপরীত পেক কুরআন আমােদর জানােচ , মানব বংশধারার সূচনা হেয়েছ িনেভরজাল মানিবক অিসত েথেকই৷ েকান অমানিবক ধারার সােথ তার ইিতহােসর েকান
কােলও েকান সমকর িছল না৷ পথম িদন েথেক তােক মানুষ িহেসেবই সৃিষ করা হেয়িছল৷ আলাহ পিরপূণর মানিবক েচতনা সহকাের পূণর আেলােক তার পািথরব জীবেনর
সূচনা কেরিছেলন৷
মানুেষর ইিতহাস সমেকর এ দিট িভন ধমরী দৃিষেকাণ েথেক মানুষ সমেকর দিট সমূণর িবপরীত ধমরী িচনাধরার উদব হয়৷ একিট িচনাধারা মানুষেক জীব -জন ও পশ
জগেতর একিট শাখা িহেসেব েপশ কের৷ তার জীবেনর সমস আইন কানুন এমন িক ৈনিতক ও চািরিতক আইেনর জেনযও মূলিনিতর সনান করা হয় ইতর পাণীসমূেহর
জীবন রীিতেত ও পশেদর জীবন ধারায়৷ তার জেনয পশেদর নযায় কমরপদিত একিট সমূণর সাভািবক কমরপদিত মেন হয়৷ েসখােন মানিবক কমরপদিত ও পাশিবক কমরপদিতর
মেধয বড় েজাড় এতটুকু পাথরকয েদখার পতযাশা করা হয় েয, মানুষ যনপািত, কল-কারখানা ,িশল -সভযতা -সংসৃিতর সূক ও িনপুন কারকাযর অবলমেন কাজ কের৷
পকানের, পশরা কাজ কের ঐসেবর সহায়তা ছাড়াই৷ িবপরীত পেক অনয িচনাধারািট মানুষেক পশর পিরবেতর মানুষ িহেসেবই উপসাপন কের৷ েসখােন মানুষ বাকশিক,
সমন পশ বা সামািজক ও সংসৃিতবান জন (Social animal)নয় বরং পৃিথবীেত আলাহর পিতিনিধ ৷ েসখােন বাকশিক বা সামািজকতােবাধ তােক অনযনযা জীব ও পানী
েথেক আলাদা কের না ৷ বরং তােক আলাদা কের তার ৈনিতক দািয়ত এবং কমতা ও ইখিতয়ার যা আলাহ তােক দান কেরেছন এবং যার িভিতেত তােক আলাহর সামেন
জবাবিদিহ করেত হেব৷ এভােব এখােন মানুষ ও তার সােথ সমৃক যাবতীয় িবষয় সমিকরত দৃিষেকাণ পূববতরী দৃিষেকাণিট েথেক সমূণর আলাদা হেয় যায়৷ এখােন মানুেষর
জেনয একিট জীবন দশরন এবং অনয একিট ৈনিতক -সাংসৃিতক বযবসার মূলনীিত অনুসনান করার জেনয মানুেষর দৃিষ সতঃসূতরভােব িনম জগেতর পিরবেতর উধর জগেতর
িদেক উঠেত থাকেব৷
পশ করা েযেত পাের, মানুষ সমিকরত এ িদতীয় ধারণািট ৈনিতক ও মসতািতক িদক িদেয় যতই উনত পযরােয়র েহাক না েকন , িনছক কলনার ওপর িনভরর কের যুিক
-তথয দারা পমািণত একিট মতবাদেক েকমন কের রদ করা েযেত পাের? িকন যারা এ ধরেনর পশ কেরন, তােদর কােছ আমার পালা পশ, সিতযই িক ডারউইেনর
িববতরনবাদ ৈবজািনক যুিক -তেথযর মাধযেম পমািণত? িবজান সমেকর িনছক ভাসা ভাসা ও সুল জান রােখ এমন ধরেনর েলােকরা অবিশয এ মতবাদেক একিট পমািণত
তািতক সতয মেন করার ভািনেত িলপ ৷ িকন িবেশষজ ও অনুসনান িবশারদরা জােনন, গিটকয় শব ও হাড়েগােড়র লমা চওড়া িফিরিস সেতও এখেনা একিট মতবােদর
পযরােয়ই রেয় েগেছ এবং এর েযসব যুিক -তথযেক ভুলকেম পমাণয বলা হেচ েসগেলা িনছক সমাবযতার যুিক ছাড়া আর িকছুই নয়৷ অথরাৎ েসগেলার িভিতেত বড় েজার
এতটুকু বলা েযেত পাের েয, ডারউইেনর িববতরনবােদর সমাবনা িঠক ততটুকুই যতটুকু সমাবনা আেছ সরাসির সৃিষকেমরর মাধযেম এক একিট েশনীর পৃথক অিসত লােভর৷

ٍ‫ن َنككار‬
ْ ‫خَلْقَتِنككي ِمك‬
َ ‫خْيٌر ِمْنُه‬
َ ‫ل َأَنا‬
َ ‫ك َقا‬
َ ‫جَد ِإْذ َأَمْرُت‬
ُ‫س‬
ْ ‫ل َت‬
ّ ‫ك َأ‬
َ ‫ل َما َمَنَع‬
َ ‫َقا‬
﴾7:12﴿ ‫ن‬
ٍ ‫طي‬
ِ ‫ن‬
ْ ‫خلَْقَتُه ِم‬
َ ‫َو‬
(7:12) Allah said: 'What prevented you from prostrating, when I commanded you to do
so?' He said: 'I am better than he. You created me from fire, and him You created from
clay.'
(৭:১২) আলাহ িজেজস করেলন, “আিম যখন েতােক হকুম িদেয়িছলাম তখন িসজদা করেত েতােক বাধা িদেয়িছল িকেস”?েস জবাব িদলঃ “আিম
তার চাইেত েশষ৷ আমােক আগন েথেক সৃিষ কেরেছা এবং ওেক সৃিষ কেরেছা মািট েথেক”৷

َ ‫ج ِإّنككَ ِمك‬
‫ن‬
ْ ُ‫خر‬
ْ ‫ن َتَتَكّبكَر ِفيَهككا َفككا‬
ْ ‫ك َأ‬
َ ‫ن َلك‬
ُ ‫ط ِمْنَهككا َفَمككا َيُكككو‬
ْ ‫ل َفككاْهِب‬
َ ‫َقككا‬
﴾7:13﴿ ‫ن‬
َ ‫غِري‬
ِ ‫صا‬
ّ ‫ال‬
(7:13) Allah said: 'Then get you down from here. It does not behove you to be arrogant
here. So be gone. You will be among the humiliated.' *11
*11. Implicit in the Qur'anic expression (sagharin) is the idea of contentment with one's
disgrace and indignity, for saghir is he who invites disgrace and indignity, upon himself. Now,
Satan was a victim of vanity and pride, and for that very reason defied God's command to
prostrate himself before Adam. Satan was therefore, guilty of self-inflicted degradation. False
pride, baseless notions of glory, ill-founded illusions of greatness failed to confer any greatness
upon him. They could only bring upon him disgrace and indignity. Satan could blame none but
himself for this sordid end.
(৭:১৩) িতিন বলেলনঃ “িঠক আেছ, তুই এখান েথেক নীেচ েনেম যা৷ এখােন অহংকার করার অিধকার েতার েনই৷ েবর হেয় যা৷ আসেল তুই এমন
েলাকেদর অনরভুক, যারা িনেজরাই িনেজেদরেক লািঞত করেত চায়”৷ ১১
১১. মূেল --------ছিগিরনা শব বযবহত হেয়েছ ৷ ছিগর----- মােন লাঞনা ও অবমাননার মেধয সনষ থাকা৷ অথরাৎ েয বযিক িনেজই লাঞনা , অবমাননা ও িনকৃষতর
অবসা অবলমন কের৷ কােজই আলাহর বানীর অথর হেচ, আলাহর বানা ও সৃিষ হেয়ও েতামার অহংকােরর মত হওয়া এবং তুিম িনেজর মযরাদা ও েশষেতর েয ধারণা
িনেজই ৈতরী কের িনেয়েছা তার দৃিষেত েতামার রেবর হকুম েতামার জেনয অবমাননাকর মেন হওয়া ও েস জেনয তা অমানয করার অথর দঁাড়ায় এই েয, তুিম িনেজই
িনেজেক অপমািনত ও লািঞত করেত দাও৷েশষেতর িমথযা, অহিমকা ,মযরাদার িভিতহীন , দাবী এবং েকান জনগত ও সতিসদ অিধকার ছাড়াই িনেজেক অযথা েশষেতর
আসেন সমাসীন মেন করা েতামােক বড়, েশষ ও মযরাদাশালী করেত পাের না৷ বরং এর ফেল তুিম িমথুযক লািঞত ও অপমািনতই হেব এবং েতামার এ লাঞনা ও
অবমাননার কারণ হেব তুিম িনেজই৷

﴾7:14﴿

َ ‫ظْرِني ِإَلى َيْوِم ُيْبَعُثو‬
‫ن‬
ِ ‫ل َأْن‬
َ ‫َقا‬

(7:14) Satan replied: 'Give me respite till the Day they shall be raised.'
(৭:১৪) েস বললঃ “আমােক েসই িদন পযরন অবকাশ দাও যখন এেদর সবাইেক পুনবরার ওঠােনা হেব” ৷

﴾7:15﴿

َ ‫ظِري‬
‫ن‬
َ ‫ن اْلُمْن‬
َ ‫ك ِم‬
َ ‫ل ِإّن‬
َ ‫َقا‬

(7:15) Allah said: 'You are granted respite.'
(৭:১৫) িতিন বলেলনঃ “েতােক অবকাশ েদয়া হেলা”৷

﴾7:16﴿

‫سَتِقيَم‬
ْ ‫طكَ اْلُم‬
َ ‫صَرا‬
ِ ‫ن َلُهْم‬
ّ ‫لْقُعَد‬
َ ‫غَوْيَتِني‬
ْ ‫ل َفِبَما َأ‬
َ ‫َقا‬

(7:16) Satan said: 'Since You have led me astray, I shall surely sit in ambush for them on
Your Straight Path.
(৭:১৬) েস বলেলাঃ “তুিম েযমন আমােক েগামরাহীেত িনেকপ করেছা েতমিন আিম ও এখন েতামার সরল-সতয পেথ এ েলাকেদর জেনয ওঁত েপেত
বেস থাকেবা।"

‫ش كَماِئِلِهْم‬
َ ‫ن‬
ْ ‫عك‬
َ ‫ن َأْيَمككاِنِهْم َو‬
ْ‫ع‬
َ ‫خْلِفِهْم َو‬
َ ‫ن‬
ْ ‫ن َأْيِديِهْم َوِم‬
ِ ‫ن َبْي‬
ْ ‫لِتَيّنُهْم ِم‬
َ ‫ُثّم‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

﴾7:17﴿

َ ‫شاِكِري‬
‫ن‬
َ ‫جُد َأْكَثَرُهْم‬
ِ ‫ل َت‬
َ ‫َو‬

(7:17) Then I will come upon them from the front and from the rear, and from their right
and from their left. And You will not find most of them thankful.' *12
*12. This was the challenge thrown down by Satan to God. What it meant is that Satan would
make use of the respite granted to him until the Last Day, and he would do so in order to prove
that nian did not deserve a position superior to his and this had after all been bestowed upon
him by God. So doing, he would expose how ungrateful, thankless and disloyal a creature man
is.
The respite asked for by Satan and granted to him by God includes not only the time but also
the opportunity to mislead Man and to prove his point by appealing to man's weaknesses. The
Qur'an makes a pointed statement about this in Banu Isra'il 17: 61-5. These verses make it clear
that God had granted Satan the opportunity to try to mislead Adam and his offspring At the
same time it has also been made quite clear that Satan was not granted the power to lead men
into error against their will. 'As for my servants', says the Qur'an, 'you shall have no power over
them' (Banu Isra'il 17: 65). Thus all that Satan can do is to cause misunderstanding, to make
people cherish false illusions, to make evil and error seem atractive, and to invite people to evil
ways by holding out to them the promise of immense pleasure and material benefits. He would
have no power, however, to forcibly pull them to the Satanic way and to prevent them from
following the Right Way. Accordingly, the Qur'an makes it quite plain elsewhere that on the
Day of Judgement, Satan would address the men who had followed him in the following words:
'I had no power over you except to call you; but you listened to me: then reproach me not, but
reproach your own selves' (Ibrahim 14: 22).
As for Satan's allegation that God Himself caused him to fall into error (see verse 16) it is an
attempt on the part of Satan to transfer the blame which fails squarely on him to God. Satan's
grivance seems to be that God was responsible for his deviation insofar as He hurt Satan's pride
by asking him to prostrate before Adam, and that it was this which led him to disobey God. It is
thus clear that Satan wanted to continue enjoying his vain arrogance and that he was incensed
that his weakness - arrogance - was seen through and brought to full light. The underlying
stupidity of the statement is too patently obvious to call for any refutation, and hence God took
no notice of it.
(৭:১৭) সামেন-েপছেন, ডাইেন-বঁােয়, সবিদক েথেক এেদরেক িঘের ধরেবা এবং এেদর অিধকাংশেক তুিম েশাকর গজার পােব না” ৷ ১২
১২. এিট িছল ইবলীেসর চযােলঞ৷ েস আলাহেক এ চযােলঞ িদেয়িছল৷ তার এ বকেবযর অথর িছল এই েয, তুিম আমােক িকয়ামত পযরন এই েয অবকাশ িদেয়েছা তােক
যথাযথভােব বযবহার কের আিম একথা পমাণ করার জেনয পূণর শিক িনেয়াগ করেবা েয, তুিম মানুষেক আমার েমাকািবলায় েয েশষত দান করেছা েস তার েযাগয নয়৷ মানুষ
েয কতবড় নাফরমান , িনমক হারাম ও অকৃতজ তা আিম েদিখেয় েদেবা৷

শয়তান েয অবকাশ েচেয়িছল এবং আলাহ তােক েয অবকাশ িদেয়িছেলন েসিট িনছক সমেয়র অবকাশ িছল না বরং েস েয কাজ করেত চািচল েস কাজিট করার সুেযাগ
ও এর অনরভূক িছল৷ অথরাৎ তার দাবী িছল, মানুষেক িবভান কের তার দবরলতাসমূহেক কােজ লািগেয় তােক অেযাগয পমাণ করার সুেযাগ িদেত হেব৷ এ সুেযাগ আলাহ
তােক িদেয়েছন৷ সূরা বনী ইসরাঈেলর সপম রকূেত (আয়াত ৬১-৬৫)এর িবসািরত িববরণ েদয়া হেয়েছ৷ েসখােন আলাহ শয়তানেক এ কমতা ও ইখিতয়ার েদবার কথা
বেলেছন েয আদম ও তার সনান -সনিতেদরেক সতয -সিঠক পথ েথেক িবচূযত করার জেনয েস িনেজর ইচা মত েয েকান েকৌশল অবলমন করেত পাের৷এসব েকৌশল
অবলমন করার েকেত তােক েকান পকার বাধা েদয়া হেব না৷ বরং েযসব পেথ েস মানুষেক িবভান করেত পাের েসই সমস পথই েখালা থাকেব৷ িকন এই সংেগ এ শতরিটও
জুেড় েদয়া হেয়েছ----------------------------অথরাৎ "আমার বানােদর ওপর েতামার েকান কতৃরত থাকেব না৷ তুিম েকবল এতটুকু করেত পারেব, তােদরেক িবভািনর মেধয িনেকপ করেত পারেব৷ িমথযা আশার ছলেন
ভুলােত পারেব, অসৎ কাজ ও েগামরাহীেক সুেশাভন কের তােদর সামেন েপশ করেত পারেব, েভােগর আনন ও সােথরর েলাভ েদিখেয় তােদরেক ভুল পেথর িদেক আহবান
জানােত পারেব৷ িকন তােদর হাত ধের জবরদিস তােদরেক েতামার পেথর িদেক েটেন আনেব এবং তারা যিদ সতয -সিঠক পেথ চলেত চায় তাহেলও তুিম তা েথেক
তােদরেক িবরত রাখেব , েস কমতা েতামােক েদয়া হেব না৷ সূরা ইবরাহীেমর চতুথর রকূেতও একই কথা বলা হেয়েছ৷ েসখােন বলা হেয়েছ, িকয়ামেতর িদন আলাহর
আদালত েথেক ফায়সালা শিনেয় েদবার পর শয়তান তার অনুসারী মানুষেদরেক বলেবঃ
-----------------------------------"েতামােদর ওপর আমার েতা েকান জবরদিস িছল না, আমার অনুসরণ করার জেনয আিম েতামােদর বাধয কিরিন৷ আিম েতামােদরেক আমার পেথর িদেক আহবান
জািনেয়িছলাম, এর েবশী আিম িকছুই কিরিন৷ আর েতামরা আমার আহবান গহণ কেরিছেল৷ কােজই এখন আমােক িতরষার কেরা না বরং েতামােদর িনেজেদরেকই
িতরসার কেরা" ৷
আর শয়তান েয এখােন আলার িবরেদ অিভেযাগ এেনেছ েয, তুিমই আমােক েগামরাহীর মেধয িনেকপ কেরেছা, এর অথর হেচ এই েয, শয়তান িনেজর েগানােহর দায়দািয়ত আলাহর ওপর চািপেয় িদেত চায়৷ তার অিভেযাগ হেচ, আদেমর সামেন িসজদা করার হকুম িদেয় তুিম আমােক িববতকর পিরিসিতর মেধয েঠেল িদেয়েছা এবং
আমার আতািভমান ও আতমিরতায় আঘাত িদেয় আমােক এমন অবসার সমুখীন কেরেছা যার ফেল আিম েতামার নাফরমানী কেরিছ৷ অনয কথায় বলা যায়, িনেবরাধ শয়তান
চািচল , তার মেনর েগাপণ ইচা েযন ধরা না পেড় ৷বরং েয িমথযা অহিমকা ও িবেদাহ েস িনেজর মেধয লুিকেয় েরেখিছল, তােক েস পদরার অনরােল সংেগাপন কের
রাখেত চািচল৷ এটা িছল একিট হীন ও িনেবরাধসূলভ আচরণ৷ এেহন আচরেণর জবাব েদবার েকান পেয়াজন িছল না৷ তাই মহান আলাহ তার এ অিভেযােগর আেদৌ েকান
গরতই েদনিন৷

‫جهَّنكَم‬
َ ‫ن‬
ّ‫ل‬
َ ‫ك ِمْنُهكْم لَْم‬
َ ‫ن َتِبَعك‬
ْ ‫حوًرا َلَمك‬
ُ ‫ج ِمْنَهككا َمكْذُءوًما َمكْد‬
ْ ‫خُر‬
ْ ‫لا‬
َ ‫َقا‬
﴾7:18﴿ ‫ن‬
َ ‫جَمِعي‬
ْ ‫ِمْنُكْم َأ‬
(7:18) Allah said: 'Go away from here - disgraced and expelled. I shall fill the Hell with
all those that follow you.
(৭:১৮) আলাহ বলেলনঃ “েবর হেয় যা এখান েথেক লািঞত ও িধকৃত অবসায়৷ িনিশতভােব েজেন রািখস ,এেদর মধয েথেক যারাই েতার অনুসরণ
করেব তােদরেক এবং েতােক িদেয় আিম জাহানাম ভের েদেবা৷

‫ل َتْقَرَبككا‬
َ ‫ش كْئُتَما َو‬
ِ ‫ث‬
ُ ‫حْي ك‬
َ ‫ن‬
ْ ‫ل ِم‬
َ ‫جّنَة َفُك‬
َ ‫ك اْل‬
َ‫ج‬
ُ ‫ت َوَزْو‬
َ ‫ن َأْن‬
ْ ‫سُك‬
ْ ‫َوَيا َآَدُم ا‬
﴾7:19﴿ ‫ن‬
َ ‫ظاِلِمي‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫جَرَة َفَتُكوَنا ِم‬
َ‫ش‬
ّ ‫َهِذِه ال‬
(7:19) 0 Adam! Live you and your spouse in the Garden and both of you eat from it
wherever you will, but never approach the tree or you shall become wrongdoers.'
১৯) আর েহ আদম! তুিম ও েতামার সী েতামরা দজনাই এ জানােত থােকা৷ েযখােন যা েতামােদর ইচা হয় খাও,িকন এ গাছিটর কােছ েযেয়া না,
অনযথায় েতামরা জােলমেদর অনরভূক হেয় যােব” ৷

‫سكْوَآِتهَِما‬
َ ‫ن‬
ْ ‫عْنُهَمككا ِمك‬
َ ‫ي‬
َ ‫ي َلُهَما َمككا ُووِر‬
َ ‫ن ِلُيْبِد‬
ُ ‫طا‬
َ ‫شْي‬
ّ ‫س َلُهَما ال‬
َ ‫َفَوسَْو‬
‫ن َأْو‬
ِ ‫ن َتُكوَنككا َمَلَكْيك‬
ْ ‫ل َأ‬
ّ ‫جَرِة ِإ‬
َ ‫شك‬
ّ ‫ن َهكِذِه ال‬
ْ ‫عك‬
َ ‫ل َمككا َنَهاُكَمككا َرّبُكَمككا‬
َ ‫َوَقا‬
﴾7:20﴿ ‫ن‬
َ ‫خاِلِدي‬
َ ‫ن اْل‬
َ ‫َتُكوَنا ِم‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(7:20) But Satan made an evil suggestion to both of them that he might reveal to them
their shame that had remained hidden from them. He said: 'Your Lord has forbidden you
to approach this tree only to prevent you from becoming angels or immortals.'
(৭:২০) তারপর তােদর লজাসান,যা তােদর পরষর েথেক েগাপন রাখা হেয়িছল, তােদর সামেন উনুক কের েদবার জেনয শয়তান তােদরেক কুমনণা
িদল৷ েস তােদরেক বলেলাঃ “েতামােদর রব েয, েতামােদর এ গাছিটর কােছ েযেত িনেষধ কেরেছন তার েপছেন এ ছাড়া আর েকান কারণই েনই েয,
পােছ েতামরা েফেরশতা হেয় যাও অথবা েতামরা িচরনন জীবেনর অিধকারী হেয় পেড়া” ৷

﴾7:21﴿

َ ‫حي‬
‫ن‬
ِ‫ص‬
ِ ‫ن الّنا‬
َ ‫سَمُهَما ِإّني َلُكَما َلِم‬
َ ‫َوَقا‬

(7:21) And he swore to them both: 'Surely I am your sincere adviser.'
২১) আর েস কসম েখেয় তােদরেক বলেলা, আিম েতামােদর যথাথর কলযাণকামী৷

‫طِفَقككا‬
َ ‫س كْوَآُتُهَما َو‬
َ ‫ت َلُهَمككا‬
ْ ‫جَرَة َب كَد‬
َ ‫شك‬
ّ ‫لُهَما ِبُغ كُروٍر َفَلّمككا َذاَقككا ال‬
ّ ‫َف كَد‬
ْ ‫عك‬
‫ن‬
َ ‫جّنِة َوَناَداُهَمككا َرّبُهَمككا َأَلكْم َأْنَهُكَمككا‬
َ ‫ق اْل‬
ِ ‫ن َوَر‬
ْ ‫عَلْيِهَما ِم‬
َ ‫ن‬
ِ ‫صَفا‬
ِ ‫خ‬
ْ ‫َي‬
﴾7:22﴿ ‫ن‬
ٌ ‫عُدّو ُمِبي‬
َ ‫ن َلُكَما‬
َ ‫طا‬
َ ‫شْي‬
ّ ‫ن ال‬
ّ ‫ل َلُكَما ِإ‬
ْ ‫جَرِة َوَأُق‬
َ‫ش‬
ّ ‫ِتْلُكَما ال‬
(7:22) Thus Satan brought about their fall by deceit. And when they tasted of the tree,
their shame became vislible to them, and both began to cover themselves with leaves
from the Garden. Then their Lord called out to them: 'Did I not forbid you from that tree,
and did I not warn you that Satan 'is your declared enemy?'
(৭:২২) এভােব পতারণা কের েস তােদর দজনেক ধীের ধীের িনেজর পেথ িনেয় এেলা৷ অবেশেষ যখন তারা েসই গােছর ফল আসাদন করেলা, তােদর
লজাসান পরসেরর সামেন খুেল েগেলা এবং তারা িনেজেদর শরীর ঢাকেত লাগেলা জানােতর পাতা িদেয়৷তখন তােদর রব তােদরেক েডেক বলেলাঃ
“আিম িক েতামােদর এ গাছিটর কােছ েযেত িনেষধ কিরিন এবং েতামােদর বিলিন েয, শয়তান েতামােদর পকাশয শত” ?

َ ‫ن ِم ك‬
‫ن‬
ّ ‫حْمَنككا َلَنُكككوَن‬
َ ‫ن َل كْم َتْغِف كْر َلَنككا َوَتْر‬
ْ ‫س كَنا َوِإ‬
َ ‫ظَلْمَنككا َأْنُف‬
َ ‫ل َرّبَنككا‬
َ ‫َقككا‬
﴾7:23﴿ ‫ن‬
َ ‫سِري‬
ِ ‫خا‬
َ ‫اْل‬
(7:23) Both cried out: 'Our Lord! We have wronged ourselves. If You do not forgive us
and do not have mercy on us, we shall surely be among the losers.' *13
*13. The narrative sheds light on the following significant points:
(i) Modesty and bashfulness are inherent in human nature. The primary manifestation of this
instinct is seen in the sense of shame that one feels when one is required to expose the private
parts of one's body in the presence of others. According to the Qur'an, this bashfulness is not
artificial, nor an outcome of advancement in human culture and civilization. Nor is it something
acquired as some misguided thinkers contend. On the contrary, modesty has been an integral

part of human nature from the very beginning.
(ii) The very first stratagem adopted by Satan in his bid to lead man astray from the Right Path
consisted of undermining man's sense of modesty, to direct him towards lewdness and make
him sexually deviant. In other words, the sexual instincts of man were taken by Satan as the
most vulnerable aspect of human nature. Accordingly, he sought to weaken man's natural
instincts of modesty and bashfulness. This devilish stratagem is still followed by the disciples
of Satan in our time. For them, progress is inconceivable without exposing woman to the gaze
of all and making her strip before others in one form or another.
(iii) Such is human nature that man scarcely responds to an unambiguous invitation to evil.
Those who seek to propagate evil are, therefore, forced to present themselves as sincere wellwishers of humanity.
(iv) Man is naturally, drawn towards lofty ideals such as the attainment of superhuman
positions and the securing of immortality. Satan achieved his first victory in his bid to mislead
man by appealing to the latter's inherent desire to attain immortality. Satan's most effective
weapon is to promise man a more elevated position than his present one, and then set him on a
course that leads instead to his degradation.
(v) Here the Qur'an refutes the fairly popular view that Satan first misled Eve and later used her
as an instrument to mislead Adam. (See Ibn Kathir's comments on verses 22-3 - Ed.) The
Qur'anic version of the story is that Satan attempted to mislead both Adam and Eve, and in fact
both fell prey to his guile. At first sight, this might seem of trivial significance. However, all
those who are acquainted with the impact of this version of Adam's fall on the moral, legal and
social degradation of women will appreciate the significance of this Qur'anic statement.
(vi) There is hardly any basis to assume that the forbidden tree had certain inherent qualities
which could result in the exposure of Adam and Eve's private parts as soon as they had tasted
its fruit. Instead of the forbidden tree possessing any extraordinary qualities, it was rather man's
disobedience to God which led to his fall from his original state. Initially, Adam and Eve's
private parts had remained hidden on account of special arrangements made by God. Once they
disobeyed, they were deprived of that special Divine arrangement, and were left to themselves
to cover their nakedness if they so wished.
(vii) This was a way, of conveying to mankind for all time that whenever he disobeys God, he
will sooner or later be exposed; that man will enjoy God's support and protection only so long
as he remains obedient to Him. Once man transgresses the bounds of his obedience, he will be
deprived of God's care and protection and left to his own self. This idea is also embodied in
many traditions from the Prophet (peace be on him). According to a tradition, the Prophet

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(peace be on him) prayed:
'O God! I seek Your Mercy. Do not leave me to my own care even for the wink of an eye!'
(Ahmad b. Hanbal, Musnad, vol. 5, P. 421 - Ed.)
(vii) Satan wanted to prove that man did not deserve, not even for a moment, the superior status
which had been granted to him by God. However, Satan failed in the very first round of his
efforts to discredit man. Granted, man did not fully succeed in obeying God's command; rather,
he fell prey to the machinations of his arch-enemy, Satan, and deviated from the path of
obedience. Nevertheless, it is evident even in the course of this first encounter that man is a
morally superior being. This is clear from many a thing. First, whereas Satan laid claim to
superiority, man made no such claim rather a superior status was bestowed upon him by God.
Second, Satan disobeyed God out of sheer pride and arrogance. But far from openly revolting
against God out of his own prompting, man was disobedient under Satan's evil influence. Third,
when man disobeyed God, he did so unwittingly, not realizing that he was committing a sin.
'Man was beguiled into disobedience by Satan ,who appeared in the garb of man's well-wisher.
It was Satan who persuaded him to believe that in the fruit of the forbidden tree lay his good,
that his action would lead him to the heights of goodness, not to the depths of evil. Fourth,
when Satan was warned, rather than confessing his mistake and repenting, he clung even more
adamantly to disobedience. But when man was told that he had sinned, he did not resort to
continued transgression as Satan did. As soon as man realized his mistake, he confessed his
fault, returned to the course of obedience and sought refuge in God's mercy.
This story draws a clear line between the way of Satan and the way that befits man. Satan's way
is characterized by rebellion against God, by arrogantly persisting in that rebellion even after
having been warned, and by trying to mislead the righteously disposed towards sin and
disobedience. As opposed to this, the way that befits man is to resist the evil promptings of
Satan and to be constantly vigilant against Satanic machinations. But, if in spite of all these
precautions, a man does swerve from the course of obedience, he should turn, as soon as he
realizes his fault, to God in penitence and remorse and make amends.
This is the lesson that God conveys to man through this anecdote. The Qur'an seeks to impress
upon the opponents of the Prophet (peace be on him) that the way, they are following is the
way of Satan. To become indifferent to God's Guidance, to take satans among men and jinn as
their protectors and to persist in disobedience despite repeated warnings, amounts to adopting a
Satanic attitude. It demonstrates that they have fallen prey to the snares of the arch-enemy and
have been totally overpowered by him. This attitude will lead to their total undoing just as it led
to Satan's undoing. Anyone who has even an iota of understanding should heed and emulate the

example of his foreparents - Adam and Eve - who repented and made amends after their
disobedience.
(৭:২৩) তারা দজন বেল উঠেলাঃ “েহ আমােদর রব! আমরা িনেজেদর ওপর জুলুম কেরিছ৷ এখন যিদ তুিম আমােদর কমা না কেরা, এবং আমােদর
পিত রহম না কেরা, তাহেল িনসেনেহ আমরা ধংস হেয় যােবা৷” ১৩
১৩. এ কািহনীিটেত কেয়কিট গরতপূণর সেতযর সনান পাওয়া যায়ঃ

একঃ লজা মানুেষর একিট পকৃিতগত ও সাভািবক অনুভূিত৷ মানুষ িনেজর শরীেরর িবেশষ সানগেলােক অেনযর সামেন উনুক করার বযাপাের পকৃিতগতভােব েয লজা
অনুভব কের েসিট ঐ সাভািবক অনুভূিতর পাথিমক পকাশ৷ কুরআন আমােদর জানায়, সভযতার কেমানিতর ফেল মানুেষর মেধয কৃিতমভােব এ লজার সৃিষ হয়িন বা এিট
বাইেরর েথেক অিজরত েকান িজিনসও নয়, েযমন শয়তােনর েকান েকান সুচতুর িশষয ও অনুসারী অনুমান কের থােক ৷ বরং জেনর পথম িদন েথেকই এ পকৃিতগত গণিট
মানুেষর মেধয রেয়েছ৷
দইঃ মানুষেক তার সভাবসূলভ েসাজা-সরল পথ েথেক সিরেয় েদবার জেনয শয়তােনর পথম েকৌশলিট িছল তার এ লজার অনুভূিতেত আঘাত করা, উলংগতার পথ িদেয়
তার জেনয িনলরজতা ও অিশলতার দরজা খুেল েদয়া এবং েযৌন িবষেয় তােক খারাপ পেথ পিরচািলত করা৷ অনয কথায় বলা যায় , পিতেপেকর ওপর আকমণ চালাবার
জেনয তার েয, দবরলতম সানিটেক েস েবেছ িনেয়িছল েসই িছল তার জীবেনর েযৌন িবষয়ক িদক ৷ েয লজােক মানবীয় পকৃিতর দগররকক িহেসেব মহান আলাহ িনযুক
কেরিছেলন তারই ওপর এেনেছ েস পথম আঘাতিট৷ শয়তান ও তার িশষযবেগরর এ কমরনীিত আেজা অপিরবিতরত রেয়েছ৷ েমেয়েদরেক উলংগ কের পকাশয বাজাের না দঁাড়
করােনা পযরন তােদর পগিতর েকান কাযরকম শরই হেত পাের না৷
িতনঃ অসৎকাজ করার পকাশয আহবানেক মানুষ খুব কমই গহণ কের, এিটও মানুেষর সভাবসূলভ পবণতা৷ সাধারণত তােক িনেজর জােল আবব করার জেনয তাই পেতযক
অসৎকেমরর আহকায়কেক কলযাণকামীর ছদেবেশ আসেত হয়৷
চারঃ মানুেষর মেধয উচতর িবষয়াবলী েযমন মানিবক পযরায় েথেক উনিত কের উচতর মােগর েপৌছার বা িচরনন জীবনলােভর সাভািবক আকাংকা থােক ৷ আর শয়তান
তােক েধঁাকা েদবার েকেত পথম সাফলয অজরন কের এ পেথই৷ েস মানুেষর এ আকাংখািটর কােছ আেবদন জানায়৷ শয়তােনর সবেচেয় সফল অস হেচ , েস মানুেষর
সামেন তােক উনিতর উচ িশখের িনেয় যাওয়ার এবং বতরমান অবসা েথেক উনতর অবসায় েপৌিছেয় েদবার েটাপ েফেল, তারপর তােক এমন পেথর সনান েদয় , যা তােক
নীেচর িদেক েটেন িনেয় যায়৷
পঁাচঃ সাধারণভােব একথািটর পচিলত হেয় েগেছ েয, শয়তান পথেম হযরত হাওয়ােক তার পতারণা জােল আবদ কের, তারপর হযরত আদমেক জােল আটকাবার জেনয
তােক কীড়নক িহেসেব বযবহার কের৷ িকন কুরআন এ ধারণা খণন কের৷ কুরআেনর বকবয হেচ, শয়তান তােদর উভয়েকই েধঁাকা েদয় এবং তারা উভেয়ই শয়তােনর
েধঁাকায় িবভান হয়৷ আপাতদৃিষেত এটা একিট মামুলী কথা বেল মেন হয়৷ িকন যারা জােনন, হযরত হওয়া সমিকরত এ সাধারেনয পচিলত বকবযিট সারা দিনয়ায় নারীর
ৈনিতক সামািজক ও আইনগত মযরাদা হাস করার েকেত কত বড় ভূিমকা পালন কেরেছ একমাত তারাই কুরআেনর এ বণরনার যথাথর মূলয ও মযরাদা অনুধাবন করেত সকম
হেবন৷
ছয়ঃ এরপ ধারণা করার েকান যুিকসঙত কারণ েনই েয, িনিষদ গােছর এমন েকান িবেশষ গণ িছল, েয কারেণ তার ফল মুখ েদবার সােথ সােথই হযরত আদম ও
হাওয়ার লজাসান অনাবৃত হেয় িগেয়িছল৷ আসেল এিট েকবল আলাহর নাফরমািনরই ফলশিত িছল৷ আলাহ ইিতপূেবর িনেজর বযবসাপনায় তােদর লজাসান আবৃত
কেরিছেলন৷ তারা তঁার িনেদরশ অমানয করার সােথ সােথই িতিন তােদর ওপর েথেক িনেজর েহফাজত ও সংরকণ বযবসা তুেল িনেয়িছেলন, তােদর আবরণ উনুক কের
িদেয়িছেলন৷ তারা যিদ পেয়াজন মেন কের তাহেল িনেজেদর লজাসান আবৃত করার বযবসা করক৷ এ কােজর দািয়ত তােদর িনেজেদর ওপরই েছেড় িদেয়িছেলন৷ আর যিদ
তারা পেয়াজন মেন না কের অথবা এ জেনয পেচষা না চালায় তাহেল তারা েযভােবই িবচরণ করক না েকন, তােত আলাহর িকছু আেস যায় না৷ এভােব েযন িচরকােলর
জেনয এ সতযিট পকাশ কের েদয়া হেলা েয, মানুষ আলাহর নাফরমানী করেল একিদন না একিদন তার আবরণ উনুক হেয় যােবই এবং মানুেষর পিত আলাহর সাহাযয
-সহেযািগতা ততিদন থাকেব যতিদন েস থাকেব আলাহর হকুেমর অনুগত৷ আনুগেতযর সীমানার বাইের পা রাখার সােথ সােথই েস আলাহর সাহাযয লাভ করেত পারেব না৷
বরং তখন তােক তার িনেজর হােতই সঁেপ েদয়া হেব৷ িবিভন হাদীেস নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম এ িবষয়িট বণরনা কেরেছন এবংএ সমেকর িতিন েদায়া কেরেছন৷
--------------------------------"েহ আলাহ! আিম েতামার রহমেতর আশা কির৷ কােজই এক মুহেতরর জেনযও আমােক আমার িনেজর হােত েসাপদর কের িদেয়া না"৷
সাতঃ শয়তান একথা পমাণ করেত চািচল েয, তার েমাকািবলায় মানুষেক েয েশষত দান করা হেয়েছ েস তার েযাগয নয়৷ িকন পথম েমাকািবলায় েস পিরিজত হেলা৷
সেনহ েনই, এ েমাকািবলায় মানুষ তার রেবর িনেদরশ েমেন চলার বযাপাের পূণর সফলকাম হেত পােরিন এবং তার এ দবরলতািটও পকাশ হেয় পড়েলা েয, তার পেক িনেজর
পিতপেকর পতারণা জােল আবদ হেয় তার আনুগেতযর পথ েথেক িবচুযত হওয়া সমব৷ িকন এ পথম েমাকািবলায় একথাও চূড়ান ভােব পমািনত হেয় েগেছ েয, মানুষ তার
ৈনিতক মযরাদার িদক িদেয় একিট উনত ও েশষ সৃিষ৷ পথমত শয়তান িনেজই িনেজর েশষেতর দাবীদার িছল৷ আর মানুষ িনেজ েশষেতর দাবী কেরিন রবং েশষত তােক দান
করা হেয়েছ৷ িদতীয়ত শয়তান িনজরলা অহংকার ও আতামিরতার িভিতেত েসচায় আলাহর িনেদরশ অমানয কের৷ অনযিদেক মানুষ েসচায় ও সতপবৃত হেয় আলাহর হকুম
অমানয কেরিন৷ বরং শয়তােনর পেরাচনায় পেড় এেত পবৃত হয়৷ অসৎকােজর পকাশয আহবােন েস সাড়া েদয়িন৷ বরং অসৎকােজর আহবায়কেক সৎকােজর আহবায়ক েসেজ
তার সামেন আসেত হেয়িছল৷ েস নীেচর িদেক যাওয়ার উেদেশয িনেয় নীেচর িদেক যায়িন বরং এ পথিট তােক উপেরর িদেক িনেয় যােব এ েধাকায় পেড় েস নীেচর িদেক
যায়৷ তৃতীয়ত শয়তানেক সতকর করার পর েস িনেজর ভুল সীকার কের বেনগীর িদেক িফের আসার পিরবেতর নাফরমানীর ওপর আেরা েবশী অিবচল হেয় যায়৷ অনযিদেক
মানুষেক তার ভূেলর বযাপাের সতকর কের েদবার পর েস শয়তােনর মত িবেদাহ কেরিন বরং িনেজর ভূল বুঝেত পারার সােথ সােথই লিজত হেয় পেড়৷ িনেজর তিট সীকার
কের, িবেদাহ েথেক আনুগেতযর িদেক িফের আেস এবং কমা পাথরনা কের িনেজর রেবর রহমেতর ছতছায়ায় আশয় খুঁজেত থােক৷
আটঃ এভােব শয়তােনর পথ ও মানুেষর উপেযাগী পথ দিট পরসর েথেক সমূণর আলাদা হেয় যায়৷আলাহর বেনগী েথেক মুখ িফিরেয় িনেয় তঁার েমাকািবলায় িবেদােহর
ঝাণা বুলন করা , সতকর কের েদয়া সেতও সগেবর িনেজর িবেদাহাতক কমরপদিতর ওপর অটল হেয় থাকা এবং যারা আলাহর আনুগেতযর পেথ চেল তােদরেকও িবভান ও
পেরািচত কের েগানাহ ও নাফরমানীর পেথ েটেন আনার েচষা করাই হেচ িনেভরজাল শয়তােনর পথ৷ িবপরীত পেক মানুেষর উপেযাগী পথিট হেচঃ পথমত শয়তােনর
পেরাচান ও অপহরণ পেচষার েমাকািবলা করেত হেব৷ তার এ পেচষায় বাধা িদেত হেব৷ িনেজর শতর চাল ও েকৌশল বুঝােত হেব এবং তার হােত েথেক বাচার জেনয
সবসময় সতকর থাকেত হেব ৷ িকন এরপর যিদ কখেনা তার পা বেনগী ও আনুগেতযর পথ েথেক সেরও যায় তাহেল িনেজর ভূল উপলিব করার সােথ সােথই লজায়
অেধাবদন হেয় তােক িনেজর রেবর িদেক িফের আসেত হেব এবং িনেজর অপরাধ ও ভুেলর পিতকার ও সংেশাধন করেত হেব৷ এ কািহনী েথেক মহান আলাহ এ েমৌল

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
িশকািটই িদেত চান৷ এখােন মানুেষর মেন িতিন একথাগেলা বদমূল কের িদেত চান েয, েতামরা েয পেথ চলেছা েসিট শয়তােনর পথ৷ এভােব আলাহর েহদায়ােতর পেরায়া
না কের িজন ও মানুেষর মধযকার শয়তানেদরেক িনেজেদর বনু ও অিভভাবেক পিরণত করা এবং কমাগত সতকর বাণী উচারণ করার পরও েতামােদর এভােব িনেজেদর
ভুেলর ওপর অিবচল থাকার পেচষা চািলেয় যাওয়া মূলত িনেভরজাল শয়তানী কমরনীিত ছাড়া আর িকছুই নয়৷ েতামরা িনেজেদর আিদ ও িচরনন দশমেনর ফঁােদ আটকা
পড়েছা৷ এবং তার কােছ পূণর পরাজয় বরণ করেছা৷ শয়তান েয পিরণিতর মুেখামুিখ হেত চেলেছ, েতামােদর এ িবভািনর পিরণামও তাই হেব৷ যিদ েতামরা সিতযই িনেজরা
িনেজেদর শত না হেয় িগেয় থােকা এবং েতামােদর মেধয সামানযতম েচতনাও েথেক থােক, তাহেল েতামরা িনেজেদর ভুল শধিরেয় নাও, সতকর হেয় যাও এবং েতামােদর
বাপ আদম ও মা হাওয়া পিরেশেষ েয পথ অবলমন কেরিছেলন েতামরাও েসই একই পথ অবলমন কেরা৷

ٌ ‫س كَتَقّر َوَمَتككا‬
‫ع‬
ْ ‫ض ُم‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫عُدّو َوَلُكْم ِفككي ا‬
َ ‫ض‬
ٍ ‫ضُكْم ِلَبْع‬
ُ ‫طوا َبْع‬
ُ ‫ل اْهِب‬
َ ‫َقا‬
﴾7:24﴿ ‫ن‬
ٍ ‫حي‬
ِ ‫ِإَلى‬
(7:24) Allah said: 'Go down; *14you are enemies one of the other. For you there is
dwelling and provision on the earth for a while.'
*14. God's command that Adam and Eve 'go down' should not be misunderstood to mean that
their departure from Paradise was by way of punishment. The Qur'an has made it clear many a
time that God accepted Adam and Eve's repentance and pardoned them. Thus the order does
not imply punishment. It rather signifies the fulfilment of the purpose for which man was
created. (For elaboration see Towards Understanding the Qur'an, vol. 1, al-Baqarh 2: nn. 48 and
53, pp. 63-4 and 66 - Ed.)
(৭:২৪) িতিন বলেলনঃ “েনেম যাও, ১৪ েতামরা পরষেরর শত এবং েতামােদর জনয একিট িবেশষ সময় পযরন পৃিথবীেতই রেয়েছ বসবােসর জায়গা
ও জীবন যাপেনর উপকরণ৷”
১৪. হযরত আদম ও হযরত হাওয়া আলাইিহস সালামেক জানাত েথেক েবর হেয় যাওয়ার এ হকুম েদয়া হেয়িছল শািস িহেসেব -এরপ ধারণা েপাষণ করার েকান কারণ
েনই৷ কুরআেনর িবিভন সােন একথা সুষষভােব বযক কের েদয়া হেয়েছ েয, আলাহ তঁােদর তাওবা কবুল কেরন এবং তােদরেক মাফ কের েদন৷ কােজই এ িনেদরেশর মেধয
শািসর েকান বযাপার থাকেত পাের না৷ বরং েয উেদেশয মানুষেক সৃিষ করা হেয়িছল এর মাধযেম েসই উেদশযিটই পূণর হেয়েছ৷ (আেরা েবশী জানার জনয েদখুন সূরা আল
বাকারার ৪৮-৫৩ নমর টীকা)

﴾7:25﴿

َ ‫جو‬
‫ن‬
ُ ‫خَر‬
ْ ‫ن َوِمْنَها ُت‬
َ ‫ن َوِفيَها َتُموُتو‬
َ ‫حَيْو‬
ْ ‫ل ِفيَها َت‬
َ ‫َقا‬

(7:25) He continued: 'You shall live there, and there shall you die, and from it you shall
be raised to life.'
(৭:২৫) আর বলেলনঃ “েসখােনই েতামােদর জীবন যাপন করেত এবং েসখােনই মরেত হেব এবং েসখান েথেকই েতামােদর সবেশেষ আবার েবর
কের আনা হেব৷”

ُ‫شكا َوِلَبكاس‬
ً ‫سكْوَآِتُكْم َوِري‬
َ ‫سكا ُيكَواِري‬
ً ‫عَلْيُككْم ِلَبا‬
َ ‫َيا َبِني َآَدَم َقكْد َأْنَزْلَنكا‬
﴾7:26﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َلَعّلُهْم َيّذّكُرو‬
ِّ ‫ت ا‬
ِ ‫ن َآَيا‬
ْ ‫ك ِم‬
َ ‫خْيٌر َذِل‬
َ ‫ك‬
َ ‫الّتْقَوى َذِل‬
(7:26) 0 Children of Adam! *15 Indeed We have sent down to you a garment which
covers your shame and provides protection and adornment. But the finest of all is the
garment of piety. That is one of the signs of Allah so that they may take heed.

*15. By referring to an important aspect of Adam and Eve's story, the attention of the people of
Arabia of those days was drawn to the evil influence of Satan upon their lives. Under Satan's
influence they had begun to see dress merely as a shield of protection against the inclemencies
of the weather and as a means of adornment. The basic purpose of dress to cover the private
parts of the body - had receded into the background. People had no inhibition about the
immodest exposure of the private parts of their body in public. To publicly take a bath
absolutely naked, to attend to the call of nature on thoroughfares, were the order of the day. To
crown it all, in the course of Pilgrimage they used to circumambulate around the Ka'bah in stark
nakedness. Women even surpassed men in immodesty. In their view, the performance of
religious rites in complete nudity was an act of religious merit.
Immodesty, however, was not an exclusive characteristic of the people of Arabia. Many nations
indulged in it in the past, and many nations continue to indulge in it even now. Hence the
message embodied in these verses is not directed just to the people of Arabia. It is rather
directed to all men. Mankind, which is the progeny of Adam, is warned against this particular
aspect of Satanic influence on their lives. When men show indifference to God's Guidance and
turn away from the Message of the Prophets, they virtually place themselves at the mercy of
Satan. For it is Satan who makes them abandon way's that are consistent with true human
nature and who leads them to immodesty in the same way he did with Adam and Eve. Were
man to reflect on this, it would become quite evident that when he is deprived of the guidance
of the Prophets, he cannot even appreciate, let alone fulfil, the primary requirements of his true
nature.
(৭:২৬) েহ বনী আদম! ১৫ েতামােদর শরীেরর লজাসানগেলা ঢাকার এবং েতামােদর েদেহর সংরকণ ও েসৌনযর িবধােনর উেদেশয আিম েতামােদর
জনয েপাশাক নািযল কেরিছ৷ আর তাকওয়ার েপাশাকই সেবরাতম৷ এই আলাহর িনদশরনগেলার অনযতম, সমবত েলােকরা এ েথেক িশকা গহণ করেব৷
১৫. এবার আদম ও হাওয়ার ঘটনার একিট িবেশষ িদেকর পিত দৃিষ আকষরণ কের আরববাসীেদর সামেন তােদর িনেজেদর জীবেন শয়তানী ভষতা -পতারণার একই অতযন
সুষষ পভােবর পিত অংগলী িনেদরশ করা হেয়েছ৷ তারা েকবলমাত েসৌনযর সামগী িহেসেব ও িবিভন ঋতুর পভাব েথেক শারীিরকভােব আতরকা করার জেনয েপাশাক
বযবহার করেতা৷ িকন এর েয পাথিমক ও েমৌিলক উেদশয শরীেরর লজাসানগেলােক আবৃত করা, েসিট তােদর কােছ েকান গরত লাভ কেরিন৷ িনেজেদর লজাসানগেলােক
অেনযর সামেন উনুক কের িদেত তারা েমােটই ইতসত করেতা না৷ পকাশয সােন উলংগ হেয় েগাসল করা , পেথ ঘােট েযখােন েসখােন পকাশয জায়গায় পকৃিতর ডােক
উেদাম হেয় বেস পড়া , পরেণর কাপড় খুেল পেড় েযেত এবং লজাসান উনুক হেয় েযেত থাকেলও তার পেরায়া না করা ইতযািদ িছল তােদর পিতিদেনর অভযাস৷ সবেচেয়
মারাতক িছল হেজর সময় তােদর অসংখয েলােকর কাবার চারিদেক উলংগ হেয় তাওয়াফ করা ৷ এ বযাপাের তােদর পুরষেদর েচেয় েমেয়রাই িছল িকছু েবশী িনলরজ৷
তােদর দৃিষেত এিট িছল একিট ধমরীয় কাজ এবং সৎকাজ মেন কেরই তারা এিট করেতা৷ আর েযেহতু এিট েকবল আরবেদর ৈবিশষয িছল না রবং দিনয়ার অিধকাংশ জািত
ও িনলরজ েবহায়াপনায় িলপ িছল এবং আেজা আেছ তাই এখােন েকবলমাত আরববাসীেদরেক সেমাধন করা হয়িন বরং বযাপকভােব সারা দিনয়ার মানুষেক সেমাধন করা
হেয়েছ৷ এখােন সমগ মানব জািতেক এই বেল সতকর কের েদয়া হেচ েয, েদেখা শয়তানী পতারণার একিট সুষষ আলামত েতামােদর িনেজেদর জীবেনই রেয়েছ৷ েতামরা
িনেজেদর রেবর পথিনদরশনার েতায়াকা না কের এবং িনেজেদর নবী -রসূেলর দাওয়াত েথেক মুখ িফিরেয় িনেয় িনেজরাই িনেজেদরেক শয়তােনর হােত তুেল িদেয়েছা৷ আর
েস েতামােদরেক মানিবক পকৃিতর পথ েথেক িবচুযত কের েসই একই িনলরজতার মেধয িনেকপ কেরেছ যার মেধয ইিতপূেবর েস েতামােদর পথম িপতা-মাতােক িনেকপ
করেত েচেয়িছল৷ এ বযাপাের িচনা করেল পকৃত সতয েতামােদর সামেন সুষষ হেয় ধরা েদেব৷ অথরাৎ রসূলেদর েনতৃত ও পথিনেদরশনা ছাড়া েতামরা িনেজেদর পকৃিতর
পাথিমক দাবীগেলা পযরন ও বুঝেত এবং তা পূণর করেত অকম৷

ُ‫جّنكِة َيْنكِزع‬
َ ‫ن اْل‬
َ ‫ج َأَبكَوْيُكْم ِمك‬
َ ‫خكَر‬
ْ ‫ن َكَما َأ‬
ُ ‫طا‬
َ ‫شْي‬
ّ ‫ل َيْفِتَنّنُكُم ال‬
َ ‫َيا َبِني َآَدَم‬
َ ُ‫حْي كث‬
‫ل‬
َ ‫ن‬
ْ ‫سْوَآِتِهَما ِإّنُه َيَراُكْم ُهَو َوَقِبيُل كُه ِم ك‬
َ ‫سُهَما ِلُيِرَيُهَما‬
َ ‫عْنُهَما ِلَبا‬
َ

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

﴾7:27﴿

َ ‫ل ُيْؤِمُنو‬
‫ن‬
َ ‫ن‬
َ ‫ن َأْوِلَياَء ِلّلِذي‬
َ ‫طي‬
ِ ‫شَيا‬
ّ ‫جَعْلَنا ال‬
َ ‫َتَروَْنُهْم ِإّنا‬

(7:27) Children of Adam! Let not Satan deceive you in the manner he deceived your
parents out of Paradise, pulling off from them their clothing to reveal to them their
shame. He and his host surely see you from whence you do not see them. We have made
satans the guardians of those who do not believe. *16
*16. These verses bring into focus several important points.
First, that the need to cover oneself is not an artificial urge in man; rather it is an important
dictate of human nature. Unlike animals, God did not provide man with the protective covering
that He provided to animals. God rather endowed man with the natural instincts of modesty and
bashfulness. Moreover, the private parts of the body are not only, related to sex, but also
constitute 'sawat' that is, something the exposure of which is felt to be shameful. Also, God did
not provide man with a natural covering in response to man's modesty and bashfulness, but has
inspired in him (see verse 26) the urge to cover himself. This is in order that man might use his
reason to understand the requirements of his nature, use the resources made available by God,
and provide himself a dress.
Second, man instinctively knows that the moral purpose behind the use of dress takes
precedence over the physical purpose. Hence the idea that man should resort to dress in order to
cover his private parts precedes the mention of dress as a means of providing protection and
adornment to the human body. In this connection man is altogether different from animals,
With regard to the latter, the natural covering that has been granted serves to protect them from
the inclemencies of weather and also to beautify their bodies. However, that natural covering is
altogether unrelated to the purpose of concealing their sexual organs. The exposure of those
organs is not a matter of shame for them and hence their nature is altogether devoid of the urge
to cover them. However, as men fell prey to Satanic influences, they developed a false and
unhealthy notion about the function of dress. They were led to believe that the function of dress
for human beings is no different from that for animals, viz., to protect them from the
inclemencies of weather and to make them look attractive. As for concealing the private parts
of the body, the importance of that function has been belittled. For men have been misled into
believing that their private parts are, in fact, like other organs of their body. As in the case of
animals, there is little need for human beings to conceal their sex organs.
Third, the Qur'an emphasizes that it is not enough for the dress to cover the private parts and to
provide protection and adornment to the human body. Man's dress ought to be the dress of
piety. This means that a man's dress ought to conceal his private parts. It should also render a
man reasonably presentable - the dress being neither too shabby and cheap nor overly

expensive and extravagant relative to his financial standing. Nor should dress smack of pride or
hauteur, or reflect that pathological mental state in which men prefer characteristically feminine
dresses and vice versa: or that the people belonging to one nation mimic people of other nations
so as to resemble them, thereby becoming a living emblem of collective humiliation and
abasement. The Qur'anic ideal can only be achieved by those who truly believe in the Prophets
and sincerely try to follow God's Guidance. For as soon as man decides to reject God's
Guidance, Satan assumes his patronage and by one means or another manages to lead him into
error after error.
Fourth, the question of dress constitutes one of the numerous signs of God which is visible
virtually throughout the world. When the facts mentioned above are carefully considered it will
be quite clear as to why dress is an important sign of God.
(৭:২৭) েহ বনী আদম! শয়তান েযন েতামােদর আবার িঠক েতমিনভােব িবভািনর মেধয িনেকপ না কের েযমনভােব েস েতামােদর িপতামাতােক
জানাত েথেক েবর কেরিছল এবং তােদর লজাসান পরসেরর কােছ উনুক কের েদবার জেনয তােদরেক িববস কেরিছল৷ েস ও তার সাথীরা
েতামােদরেক এমন জায়গা েথেক েদেখ েযখান েথেক েতামরা তােদরেক েদখেত পাও না৷ এ শয়তানেদরেক আিম যারা ঈমান আেন না তােদর
অিভভাবক কের িদেয়িছ৷ ১৬
১৬. এ আয়াতগেলােত েয কথাগেলা বলা হেয়েছ তা েথেক কেয়কিট গরতপূণর সতয সুষষ হেয় সামেন েভেস উেঠেছঃ
একঃ েপাশাক মানুেষর জেনয েকান কৃিতম িজিনস নয়৷ বরং এিট মানব পকৃিতর একিট গরতপূণর দাবী৷ আলাহ মানুেষর েদেহর বিহভরােগ পশেদর মত েকান েলামশ আচাদন
জনগতভােব ৈতরী কের েদনিন৷ বরং লজার অনুভূিত তার পকৃিতর মেধয গিচত েরেখ িদেয়েছন৷ িতিন মানুেষর েযৌন অংগগেলােক েকবলমাত েযৌনাংগ িহেসেবই ৈতরী
কেরন না বরং এগেলােক "সাওআত" ও বািনেয়েছন৷ আরবী ভাষায় "সাওআত" এমন িজিনসেক বলা হয় যার পকাশেক মানুষ খারাপ মেন কের৷ আবার এ পকৃিতগত
লজার দাবী পূরণ করার জেনয িতিন মানুষেক েকান ৈতির করা েপাষাক েদনিন৷ বরং তার পকৃিতেক েপাশাক বযবহাের উদুদ কেরেছন ,------------ যােত িনেজর বুিদ
বযবহার কের েস পকৃিতর এ দাবীিট উপলিব করেত পাের এবং আলাহর সৃষ উপাদান ও উপকারণ সমূহ কােজ লািগেয় িনেজর জেনয েপাশাক ৈতরী করেত সকম হয়৷
দইঃ এ পাকৃিতক ও জনগত উপলিবর েপিকেত মানুেষর জেনয েপাশােকর ৈনিতক পেয়াজন অগগণয৷ অথরাৎ পথেম েস "সাওআত" তথা িনেজর লজাসান আবৃত করেব৷
আর তার সভাবগত চািহদা ও পেয়াজন িদতীয় পযরায়ভুক৷ অথরাৎ তারপর তার েপাশাক তার জেনয "রীশ", অথরাৎ ৈদিহক েসৌনযর িবধান করেব এবং আবহাওয়ার পভাব
েথেক তার েদহ েসৌষবেক রকা করেব৷এ পযরােয়ও মানুষ ও পশর বযাপার সভাবতই সমূণর িভন৷পশর শরীেরর েলামশ আচাদন মূলত তার জেনয "রীশ" অথরাৎ তার
শরীেরর েশাভা বধরন ও ঋতুর পভাব েথেক তােক রকা কের৷ তার েলামশ আচাদন তার লজাসান ঢাকার কাজ কের না৷ কারণ তার েযৌনাংগ আদেত তার সাওআত বা
লজাসান নয়৷ কােজই তােক আবৃত করার জেনয পশর সভাবও পকৃিতেত েকান অনুভূিত ও চািহদা থােক না এবং তার চািহদা পূরণ করার উেদেশয তার জেনয েকান
েপাশাকও সৃিষ করা হয় না৷ িকন মানুষ যখন শয়তােনর েনতৃত গহণ করেলা তখন বযাপারিট আর উেল েগেলা৷ শয়তান তার এ িশষযেদরেক এভােব িবভান করেত সকম
হেলা েয, েতামােদর জেনয েপাশােকর পেয়াজন পশেদর জনয েপাশােকর পেয়াজেনর সমপযরায়ভুক , আর েপাশাক িদেয় লজাসান েঢেক রাখার বযাপারিট েমােটই েকান
গরতপূণর িবষয় নয়৷বরং পশেদর অংগ -পতযংগ েযমন তােদর লজাসান িহেসেব িবেবিচত হয় না, িঠক েতমিন েতামােদর এ অংগ -পতযংগ গেলাও লজাসান নয় বরং
এগেলা িনছক েযৌনাংগ৷
িতনঃ মানুেষর েপাশাক েকবলমাত তার লজাসান আবৃত করার এবং তার শারীিরক েশাভাবধরন ও েদহ সংরকেণর উপায় হেব, এতটুকুই যেথষ নয়৷ বরং আসেল এ বযাপাের
তােক অনত এতটুকু মহতর মােন েপৌছেত হেব, যার ফেল তার েপাশাক তাকওয়ার েপাশােক পিরণত হয়৷ অথরাৎ তার েপাশাক িদেয় েস পুেরাপুির "সতর" তথা লজাসান
েঢেক েফলেব৷ েসৌনযর চচরা ও সাজসজার মাধযেম শরীেরর েশাভা বধরন করার েকেত তা সীমা অিতকম কের যােব না বা বযিকর মযরাদার েচেয় িনম মােনরও হেব না৷ তার
মেধয গবর, অহংকার ও আতমিরতার েকান পদশরনী থাকেব না৷ আবার এমন েকান মানিসক েরােগর পিতফলনও তােত থাকেব না৷ যার আকমেণর ফেল পুরষ নারীসূলভ
আচরণ করেত থােক ,নারী করেত থােক পুরষসূলভ আচরণ এবং এ জািত িনেজেক অনয এক জািতর সদৃশ বানাবার পেচষায় িনেজর িনেজর হীনতা ও লাঞনার জীবন
পতীেক পিরণত হয়৷ েযসব েলাক নবীেদর পিত ঈমান এেন িনেজেদরেক পুেরাপুির আলাহর পথিনেদরশনার আওতাধীন কের েদয়িন তােদর পেক েপাশােকর বযাপাের এ
কাংিখত মহতর মােন উপনীত হওয়া েকানকেমই সমব নয়৷ যখন তারা আলাহর পথিনদরশনা গহেণ অসমিত জানায় তখন শয়তানেদরেক তােদর পৃষেপাষক ও অিভভাবক
বািনেয় েদয়া হয় এবং এ শয়তান তােদরেক েকান না েকানভােব ভূল -ভািণত ও অসৎকােজ িলপ কেরই ছােড়৷
চারঃ দিনয়ার চারিদেক আলাহর েযসব অসংখয িনদশরন ছিড়েয় রেয়েছ এবং েযগেলা মহাসেতযর সনানলােভর বযাপাের মানুষেক সাহাযয কের, েপাশােকর বযাপারিটও তার
অনযতম৷ তেব এখােন শতর হেচ , মানুেষর িনেজর তা েথেক িশকা গহণ করেত হেব৷ ওপের আিম েযসব সেতযর িদেক ইংিগত কেরেছ েসগেলােক একটু গভীর দৃিষেত
িবেশষণ করেল েপাশাক েকান দৃিষেত আলাহর একিট গরতপূণর িনদশরন তা সহেজই অনুধাবন করা েযেত পাের৷

َّ ‫ن ا‬
‫ل‬
ّ ‫ل ِإ‬
ْ ‫ل َأَمَرَنا ِبَها ُق‬
ُّ ‫عَلْيَها َآَباَءَنا َوا‬
َ ‫جْدَنا‬
َ ‫شًة َقاُلوا َو‬
َ‫ح‬
ِ ‫َوِإَذا َفَعُلوا َفا‬
﴾7:28﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َتْعَلُمو‬
َ ‫ل َما‬
ِّ ‫عَلى ا‬
َ ‫ن‬
َ ‫شاِء َأَتُقوُلو‬
َ‫ح‬
ْ ‫ل َيْأُمُر ِباْلَف‬
َ
(7:28) And when such people commit an indecent act they say: 'We found our fathers

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

doing that, and Allah has enjoined it on us. *17 Say: 'Surely Allah never enjoins any
indecency. *18 Do you say things regarding Allah that you do not know?'
*17. This refers to the pre-islamic Arabian practice of circumambulating around the Ka'bah in
stark nakedness. The people of those day's thought that nakedness during circumambulation
had been enjoined by God.
*18. The simple and succinct Qur'anic statement that 'Allah never enjoins any, indecency'
(verse 29) stands as the overwhelming argument against many false beliefs that were
entertained by the people of Arabia. For a fuller appreciation of this argument the following
points should be kept in mind:
First, that the people of Arabia totally stripped themselves while performing certain religious
rites under the mistaken notion that it had been so enjoined. But on the other hand they were
agreed that nudity was a shameful thing so that no Arab of any standing could ever approve of
appearing naked in any respectable assembly or market-place.
Second, notwithstanding their reservation about nudity, they strippeel themselves totally while
performing certain religious rites on the ground that religion was from God. Hence there was
nothing objectionable about performing a religious act in a state of nakedness for God had so
enjoined them regarding the performance of that rite. Here the Qur'an confronts them with a
clear question: How can they believe that God could order them to do something which
involves nakedness and which they know to be inherently shameful? What is implied is that
God could not command them to commit indecency, and if their religion contained elements of
indecency then this is positive proof of its not being from God.
(৭:২৮) তারা যখন েকান অিশল কাজ কের তখন বেল, আমােদর বাপ-দাদারেদেক আমরা এভােবই করেত েদেখিছ এবং আলাহই আমােদর এমনিট
করার হকুম িদেয়েছন৷ ১৭ তােদরেক বেল দাও আলাহ কখেনা িনলরজতা ও েবহায়াপনার হকুম েদন না৷ ১৮ েতামরা িক আলাহর নাম িনেয় এমন কথা
বেলা যােক েতামরা আলাহর কথা বেল জােনা না?
১৭. এখােন আরবাসীেদর উলংগ অবসায় কাবা শরীফ তাওয়াফ করার পিত ইংিগত করা হেয়েছ৷ ইিতপূেবর আিম এ সমেকর আেলাচনা কেরিছ৷একিট ধমরীয় কাজ মেন কেরই
তারা এটা করেতা৷ তারা মেন করেতা, আলাহ তােদরেক এমনিট করার হকুম িদেয়েছন৷
১৮. আপাতদৃিষেত এিট একিট অিত সংিকপ বাকয ৷ িকন আসেল এর মেধয কুরআন মজীদ উলংগ তাওয়াফকারীেদর জােহলী আকীদার িবরেদ একিট মসবড় যুিক েপশ
কেরেছ৷ এ যুিক উপসাপন পদিতিট অনুধাবন করেত হেল ভূিমকা সরপ দিট কথা অবিশয বুেঝ িনেত হেবঃ
একঃ আরববাসীরা যিদও িনেজেদর েকান েকান ধমরীয় অনুষান পালেনর সময় উলংগ হেতা এবং এেক একিট পিবত ধমরীয় কাজ মেন করেতা৷ িকন উলংগ হওয়াটােক তারা
এমিনেত একিট লজাজনক কাজ বেল মেন করেতা এবং এিট তােদর িনকট সীকৃিত িছল৷ তাই েকান সমান ভদ ও অিভজাত আরব েকান সংসৃিতবান মজিলেস বা েকান
বাজের অথবা িনেজর আতীয় -সজনেদর মেধয উলংগ হওয়াটােক েকানকেমই পছন করেতা না৷
দইঃ উলংগপনােক লজাজনক জানা সেতও তারা একিট ধমরীয় আনুষািনকতা িহেসেব িনেজেদর ইবাদেতর সময় উলংগ হেতা৷ আর েযেহতু িনেজেদর ধমরেক তারা আলাহর
পক েথেক েপিরত ধমর বেল মেন করেতা তাই তারা মেন করেতা এ আনুষািনকতািটও আলাহর পক েথেক িনধরািরত৷ এরই িভিতেত কুরআন মজীদ এখােন এ যুিক
উপসাপন কেরেছ েয, েয কাজিট অশীল এবং যােক েতামরা িনেজরাও অশীল বেল জােনা ও সীকার কেরা েস সমেকর েতামরা েকমন কর একথা িবশাস কেরা েয, আলাহর
এর হকুম িদেয় থাকেবন? আলাহর পক েথেক কখেনা েকান অশীল কােজর হকুম আসেত পাের না৷ আর যিদ েতামােদর ধেমর এমন েকান হকুম পাওয়া যায় তাহেল
েতামােদর ধমর েয আলাহর পক েথেক েপিরত নয়, এিটই তার অকাটয পমাণ৷

‫عككوُه‬
ُ ‫جٍد َواْد‬
ِ ‫سك‬
ْ ‫ل َم‬
ّ ‫عْنكَد ُكك‬
ِ ‫جككوَهُكْم‬
ُ ‫ط َوَأِقيُمككوا ُو‬
ِ ‫سك‬
ْ ‫ل َأَمَر َرّبككي ِباْلِق‬
ْ ‫ُق‬
﴾7:29﴿ ‫ن‬
َ ‫ن َكَما َبَدَأُكْم َتُعوُدو‬
َ ‫ن َلُه الّدي‬
َ ‫صي‬
ِ ِ‫خل‬
ْ ‫ُم‬
(7:29) Say to them (0 Muhammad): 'My Lord enjoins justice; and that you set your faces
aright at the time of every Prayer; and that you call upon Him, exclusively dedicating
your faith to Him. You shall return to Him as you were created.' *19
*19. The verse seeks to suggest that God has nothing to do with their foolish rituals. So far as
the religion truly prescribed by Him is concerned, its fundamental principles are the following:
(1) That man should base his life on justice and righteousness.
(2) That man's worship should have the right orientation, i.e. that it should he directed to God
alone and should be free of every trace of devotion to others than God, that man should reserve
his absolute enthralment and bondage for the One True God alone. All these should have only
one direction - the One that is truly worthy of worship.
(3) Man should invoke God alone to keep him rightly directed, to grant him help and succour,
to favour him with protection and security. This should be done provided one's life is oriented
to serving God. Invoking help from God would be ludicrous if man's life is based on unbelief,
polytheism, disobedience to God, or serving a variety of gods other than the One True God.
Such a prayer would amount to asking God's help in strengthening one in one's rebellion
against Him.
(4) That man should have full conviction that in the same way as God caused him to he born in
the world, He will also restore him to life after death and will make him stand before Himself
so as to render an account of his life.
(৭:২৯) েহ মুহামাদ! তােদরেক বেল দাও আমার রব েতা সততা ও ইনসােফর হকুম িদেয়েছন৷ তঁার হকুম হেচ, পেতযক ইবাদত িনেজর লকয িঠক
রােখা এবং িনেজর দীনেক একানভােব তঁার জনয কের িনেয় তঁােকই ডােকা৷ েযভােব িতিন এখান েতামােদর সৃিষ কেরেছন িঠক েতমিনভােব েতামােদর
আবার সৃিষ করা হেবও ১৯
১৯. এর অথর হেচ, েতামােদর এসব অথরহীন রীিত- আনুষািনকতার সােথ আলাহর দীেনর িক সমকর ? িতিন েয দীেনর িশকা িদেয়েছন তার মূলনীিতগেলা িনমরপঃ
একঃ মানুেষর িনেজর জীবনেক সতয, সততা, নযায়িনষা, ও ভারসােমযর ওপর পিতিষত করেত হেব৷
দইঃ ইবাদেতর েকত সিঠক লেকযর ওপর অিবচল থাকেত হেব অথরাৎ তার ইবাদেতর আলাহ ছাড়া আর কােরার বেনগীর সামানযতম সশরও থাকেব না৷ আসল মাবুদ
আলাহর িদেক িফের ছাড়া আর েকান িদেক িফের তার আনুগতয, দাসত , হীনতা, ও দীনতার সামানযতম পকাশও ঘটেত পারেব না৷
িতনঃ পথিনেদরশনা , সাহাযয, সমথরন, পৃষেপাষকতা,েহফাজত ও সংরকেণর জেনয একমাত আলাহরই কােছ েদায়া চাইেত হেব৷ িকন এ েকেত শতর হেচ, এসব িবষেয়র
জেনয েদায়া পাথরীেক পূবরােহই িনেজর দীনেক একানভােব আলাহ জনয িনিদষর করেত হেব৷ জীবেনর সমগ বযবসা , কুফরী , িশরক, েগানাহ ও অেনযর বনগীর িভিতেত
পিরচািলত হেব৷িকন সাহাযয চাওয়া হেব আলাহর কােছ এ বেল , েহ আলাহ! েতামার িবরেদ আমার এ িবেদােহ আমােক সাহাযয কেরা, এমনিট েযন না হয়৷
চারঃ এ মেমর িবশাস সাপন করেত হেব েয, এ দিনয়ায় েস েযভােব জন িনেয়েছ িঠক েতমিনভােব অনয একিট জগেতও তার জনম হেব এবং েসখােন আলাহর কােছ তার

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
সমস কােজর িহেসব িদেত হেব৷

َ ‫طي‬
‫ن‬
ِ ‫شكَيا‬
ّ ‫خكُذوا ال‬
َ ‫لَلُة ِإّنُهكُم اّت‬
َ ‫ضك‬
ّ ‫عَلْيِهكُم ال‬
َ ‫ق‬
ّ ‫حك‬
َ ‫َفِريقًككا َهكَدى َوَفِريًقككا‬
﴾7:30﴿ ‫ن‬
َ ‫ن َأّنُهْم ُمْهَتُدو‬
َ ‫سُبو‬
َ‫ح‬
ْ ‫ل َوَي‬
ِّ ‫ن ا‬
ِ ‫ن ُدو‬
ْ ‫َأْوِلَياَء ِم‬
(7:30) A party He has guided to the Right Way, and for another party straying is justly
its due for they have taken satans, rather than Allah, as their guardians, even though they
think that they are rightly-guided.
(৭:৩০) একিট দলেক িতিন েসাজা পথ েদিখেয় িদেয়েছন িকন অনয দলিটর ওপর েগামরাহী সতয হেয় েচেপই বেসেছ৷ কারণ তারা আলাহেক বাদ
িদেয় শয়তানেদরেক িনেজেদর অিভভাবেক পিরণত কেরেছ এবং তারা মেন করেছ, আমরা সিঠক পেথই আিছ৷

‫سِرُفوا‬
ْ ‫ل ُت‬
َ ‫شَرُبوا َو‬
ْ ‫جٍد َوُكُلوا َوا‬
ِ‫س‬
ْ ‫ل َم‬
ّ ‫عْنَد ُك‬
ِ ‫خُذوا ِزيَنَتُكْم‬
ُ ‫َيا َبِني َآَدَم‬
﴾7:31﴿ ‫ن‬
َ ‫سِرِفي‬
ْ ‫ب اْلُم‬
ّ ‫ح‬
ِ ‫ل ُي‬
َ ‫ِإّنُه‬
(7:31) Children of Adam! Take your adornment at every time of Prayer; *20 and eat and
drink without going to excesses. For Allah does not like those who go to excess. *21
*20. The word zina which occurs in this verse refers to full and proper dress. While performing
Prayer people are required not only to cover the private parts of their body, but also to wear a
dress that serves the two-fold purpose of covering and giving one a decent appearance.
The directive to pray in a proper and decent dress is aimed at refuting the misconception
entertained by ignorant people down the ages that man should worship God either in a nude or
semi-naked state, or at least have a shabby and unkempt appearance while worshipping. In this
verse people are being told the opposite of this. At the time of worship they should not only be
free from all kinds of nudity and indecency, but should also be in a decent dress.
*21. God does not want to subject man to want and misery or starvation or to deprive him as
such of the good things of this worldly life. On the contrary, it pleases Him that man should
appear in good decent dress and enjoy the clean food provided for him by God. There is
nothing sinful in that. As for sin, it consists in transgressing the bounds set by God. This
transgression could be committed in both ways: by making the unlawful lawful, or by making
the lawful unlawful.
(৭:৩১) েহ বনী আদম! পেতযক ইবাদােতর সময় েতামরা িনজ িনজ সুনর সােজ সিজত হও৷ ২০ আর খাও ও পান কেরা িকন সীমা অিতকম কের
েযেয়া না, আলাহ সীমা অিতকমকারীেদরেক পছন কেরন না৷ ২১
২০. এখােন সুনর সাজ বলেত পূণর েপাশাক-পিরেচেদর কথা বলা হেয়েছ৷ আলাহর ইবাদত করার জেনয দঁাড়াবার সময় েকবল মাত লজাসান ঢাকাই যেথষ হেব না৷ বরং

একই সংেগ সামথর অনুযায়ী িনেজর পূণর েপাশাক পের িনেত হেব, যার মাধযেম লজাসান আবৃত হবার সােথ সােথ েসৌনেযরর পকাশও ঘটেব৷ মূখর ও অজ েলােকরা িনেজেদর
ভািননীিতর িভিতেত ইবাদেতর েকেত েযসব কাজ করেতা এবং এখেনা কের চলেছ এ িনেদরেশ তার পিতবাদ করা হেয়েছ৷ তারা মেন করেতা উলংগ বা অধর -উলংগ হেয়
এবং িনেজেদর আকার , আকৃিত ও েবশভুষা িবকৃত কের আলাহর ইবাদত করা উিচত৷ আলাহ বেলন, িনেজেক সুনর সােজ সিজত কের এমন আকার আকৃিত ধারণ কের
ইবাদত করেত হেব যার মেধয উলংগপনা েতা দূেরর কথা অশীলতার েলশমাতও েযন না পাওয়া যায়৷
২১. অথরাৎ েতামােদর ৈদনযদশা, অনাহারিকষ জীবন এবং হালাল জীিবকা েথেক বিঞত থাকা আলাহর কােছ িপয় নয়৷ তঁার বেনগী করার জেনয েতামােদর েকান পযরােয়
এসেবর িশকার হেত েহাক- এটা িতিন চান না৷ বরং েতামরা তার েদয়া উতম েপাশাক পরেল এবং পিবত ও হালাল খাবার েখেল িতিন খুশী৷ মানুষ যখন হালালেক হারাম
করার বা হারামেক হালাল করার জেনয তঁার িনধরািরত সীমােরখা অিতকম কের তখিন েসটা তঁার শরীয়ােত আসল েগানাহ িহেসেব িচিহত হয়৷

ْ‫ق ُق كل‬
ِ ‫ن ال كّرْز‬
َ ‫ت ِم ك‬
ِ ‫طّيَبا‬
ّ ‫ج ِلِعَبادِِه َوال‬
َ ‫خَر‬
ْ ‫ل اّلِتي َأ‬
ِّ ‫حّرَم ِزيَنَة ا‬
َ ‫ن‬
ْ ‫ل َم‬
ْ ‫ُق‬
ُ ‫صك‬
‫ل‬
ّ ‫ك ُنَف‬
َ ‫خاِلصًَة َيكْوَم اْلِقَياَمكِة َككَذِل‬
َ ‫حَياِة الّدْنَيا‬
َ ‫ن َآَمُنوا ِفي اْل‬
َ ‫ي ِلّلِذي‬
َ ‫ِه‬
﴾7:32﴿ ‫ن‬
َ ‫ت ِلَقْوٍم َيْعَلُمو‬
ِ ‫لَيا‬
َْ ‫ا‬
(7:32) Say (0 Muhammad): 'Who has forbidden the adornment which Allah has brought
forth for His creatures or the good things from among the means of sustenance?' *22 Say:
'These are for the enjoyment of the believers in this world, and shall be exclusively theirs
on the Day of Resurrection.' *23 Thus do We clearly expound Our revelations for those
who have knowledge.
*22. Since it is God Himself Who has created all good and pure things for man, it obviously
could not have been His intent to make them unlawful. Now, if there is any religion, or any
ethical or social system which forbids those things, or considers them an insurmountable barrier
to man's spiritual growth, it has an intellectual orientation which itself is evident proof of its not
having been prescribed by God.
This is an important argument which the Qur'an advances in refutation of false creeds. An
appreciation of this argument would help one understand the Qur'anic line of argumentation as
such.
*23. All the clean and beautiful things created by God are meant, in principle, for the believers
even in this world, for they are God's faithful subjects, and it is fidelity to God that makes one
deserve enjoyment of the things which are God's. However, all men are under a test in this
world. Hence even those who are disloyal to God have been granted respite to mend their ways
and are, therefore, not denied His worldly bounties. In fact with a view to testing those disloyal
to God these bounties are at times lavished upon them even more abundantly than on God's
faithful servants. But the character of the Next Life will be totally different. For one's station
there will be determined entirely by one's righteousness and justice. God's bounties in the Next
Life, therefore, will be for the faithful alone. As for the unfaithful, those who were disloyal to
God even though every fibre of their being was nourished by the sustenance provided by Him,
they will have no share whatsoever of those bounties in the Next Life.
(৭:৩২) েহ মুহামাদ! তােদরেক বেল দাও, আলাহ তঁার বানােদর জেনয েযসব েসৌনযর সামগী সৃিষ কেরেছন, েসগেলা েক হারাম কেরেছ? আর

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
আলাহর েদয়া পিবত িজিনসগেলা েক িনিষদ কেরেছ?২২ বেলা, দিনয়ার জীবেনও এ সমস িজিনস ঈমানদােদর জেনয, আর িকয়ামেতর িদেন এগেলা
েতা একানাভােব তােদরই জেনয হেব৷২৩ এভােব যারা জােনর অিধকারী তােদর জেনয আমার কথাগেলা আিম দযথরহীনভােব বণরনা কের থািক৷
২২. এর অথর হেচ, আলাহ েতা তঁার দিনয়ার সমস েশাভা -েসৌনযর এবং সমস পাক-পিবত িজিনস তঁার বানােদর জেনযই সৃিষ কেরেছন৷ কােজই এগেলা বানােদর জেনয
হারাম কের েদয়া কখেনা তার উেদশয হেত পাের না৷ এখন যিদ েকান ধমর বা ৈনিতক ও সামািজক বযবসা এগেলােক হারাম, ঘৃণয অথবা আিতক উনিতর পিতবনক গণয
কের তাহেল তার এ কাজিটই সুষষভােব পমাণ কের েয, েসিট আলাহর পক েথেক আেসিন৷ বািতল ধমরমতগেলার িবরেদ কুরআন েযসব যুিক-পমাণ েপশ কেরেছ এিট
তার মেধয একিট গরতপূণর যুিক৷ বসত কুরআেনর যুিক উপসাপন পদিত অনুধাবন করার জেনয এ যুিকিট অনুধাবন করা একান অপিরহাযর৷
২৩. অথরাৎ পকৃতপেক আলাহর সৃষ সমস িজিনস দিনয়ার জীবেনও ঈমানদারেদর জেনযই৷ কারণ তারাই আলাহর িবশস পজা ৷ আর একমাত িনমকহালাল, িবশস ও
অনুগত েলােকরাই অনুগহলােভর অিধকারী হেত পাের৷ িকন দিনয়ার বতরমান বযবসাপনা েযেহতু পরীকা ও অবকাশদােনর নীিতর ওপর পিতিষত তাই এখােন অিধকাংশ
সময় আলাহর অনুগহগেলা িনমকহারাম ও অকৃতজেদর মেধয ও বিনত হেত থােক৷ আর অেনক সময় িবশস ও িনমক হালােলর তুলনায় তােদর ওপরই েবশী অনুগহ বষরণ
করা হেয় থােক৷ তেব আেখরাত (েযখানকার সমস বযবসাপনা হক, সতয ও নযােয়র িভিতেত পিতিষত হেব)জীবেনর আরাম আেয়েশর সমস উপকরণ এবং সমস পিবত খাদয
ও পানীয় একমাত অনুগত, কৃতজ ও িনমকহালাল বানােদর জেনযই িনধরািরত থাকেব৷ েযসব িনমকহারাম বানা তােদর রেবর েদয়া খাদয -পানীেয় জীবন ধারণ করার পরও
তারই িবরেদ িবেদােহর ঝাণা উিড়েয়েছ তারা এর েথেক েকান অংশই পােব না৷

َ‫ن َوالِْْثكَم َواْلَبْغكي‬
َ‫ط‬
َ ‫ظَهَر ِمْنَها َوَما َب‬
َ ‫ش َما‬
َ ‫ح‬
ِ ‫ي اْلَفَوا‬
َ ‫حّرَم َرّب‬
َ ‫ل إِّنَما‬
ْ ‫ُق‬
‫ن َتُقوُلككوا‬
ْ ‫طاًنا َوَأ‬
َ ‫سكْل‬
ُ ‫ل ِبكِه‬
ْ ‫ل َمككا َلكْم ُيَنكّز‬
ِّ ‫شِرُكوا ِبككا‬
ْ ‫ن ُت‬
ْ ‫ق َوَأ‬
ّ‫ح‬
َ ‫ِبَغْيِر اْل‬
﴾7:33﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َتْعَلُمو‬
َ ‫ل َما‬
ِّ ‫عَلى ا‬
َ
(7:33) Tell them (0 Muhammad): 'My Lord has only forbidden indecent acts, whether
overt or hidden; *24 all manner of sin; *25 wrongful transgression; *26 and [He has
forbidden] that you associate with Allah in His divinity that for which He has sent down
no sanction; and that you ascribe to Allah things of which you have no sure knowledge
that they are from Him.'
*24. For an elaboration of hidden and overt indecencies see Towards Understanding the Qur'an,
vol. 11, al-An'am, 6: nn. 128 and 131, pp. 290-2.
*25. The word ithm denotes negligence, dereliction of duty. Athimah signifies the she-camel
which, though capable of running at a fast pace, deliberately moves slowly. The meaning of the
word, therefore, carries the idea of sin. Viewed in the context of man, the word convey's the
sense of man's deliberate neglect of his duty to God, his failure to pursue God's good pleasure
despite his having the capacity to obey and follow Him.
*26. To exceed the limits set by God and to enter an area which has been declared out of
bounds for man constitute rebellion and transgression. According to this definition of baghy,
the charge of rebellion will apply to all those who act according to their whims rather than in
accordance with the directives of God. It is applicable to those who behave as though they are
the true masters of God's Kingdom, claiming for themselves the prerogatives of God. It also
applies to all those who usurp the rights of others.

(৭:৩৩) েহ মুহামাদ! তােদরেক বেল দাও, আলাহ েযসব িজিনস হারাম কেরেছন েসগেলা হেচঃ পকাশয ও েগাপন অশীলতা, ২৪ েগানাহ, ২৫
সেতযর িবরেদ বাড়াবািড় ২৬ আলাহর সােথ েতামােদর কাউেক শরীক করা যার সপেক িতিন েকান সনদ পাঠানিন এবং আলাহর নােম েতামােদর এমন
েকান কথা বলা, যা মূলত িতিন বেলেছন বেল েতামােদর জানা েনই৷
২৪. বযাখযার জেনয সূরা আন'আেমর ১২৮ও ১৩১টীকা েদখুন৷
২৫. এখােন মূল শব হেচ,-----(ইসম)৷ এর আসল অথর হেচ, তিট -িবচুযিত ৷---- ইসমাহ এমন এক ধরেনর উটনীেক বলা হয়, েয দত চলেত পাের িকন েজেন বুেঝ
অলসভােব চেল৷ এ েথেকই এ শেবর মেধয েগানােহর ভাবধারা সৃিষ হেয়েছ৷ অথরাৎ মানুষ যখন িনেজর রেবর আনুগতয করার ও তঁার হকুম েমেন চলার কমতা ও সামথর
থাকা সেতও গিড়মিস ও গাফলিত কের এবং েজেন বুেঝ ভুল-তিট কের তার সনিষ লােভ অসমথর হয়, তখন েসই আচরণিটেকই েগানাহ বলা হয়৷
২৬. অথরাৎ িনেজর সীমানা অিতকম কের এমন একিট সীমানায় পদাপরণ করা েযখােন পেবশ করার অিধকার মানুেষর েনই৷ এ সংজার আেলােক িবচার করেল যারা বেনগীর
সীমানা েপিরেয় আলাহর রােজয েসচাচারী মেনাভাব ও আচরণ গহণ কের, যারা আলাহর সাবরেভৌম কমতা ও কতৃরেতর মেধয েথেকও িনেজেদর অহংকার ও েশষেতর ডংকা
বাজায় এবং যারা মানুেসর অিধকাের হসেকপ কের, তারা সবাই িবেদাহী গণয হয়৷

﴿

‫ن‬
َ ‫سَتْقِدُمو‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫عًة َو‬
َ ‫سا‬
َ ‫ن‬
َ ‫خُرو‬
ِ ‫سَتْأ‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫جُلُهْم‬
َ ‫جاَء َأ‬
َ ‫ل َفِإَذا‬
ٌ‫ج‬
َ ‫ل ُأّمٍة َأ‬
ّ ‫َوِلُك‬
﴾7:34

(7:34) For every community there is an appointed term; and when its term arrives, they
cannot tarry behind a moment, nor can they get ahead. *27
*27. The expression 'fixed term' used in the verse should not give rise to the misconception that
the term of a nation expires on a definite day, month or year. What the statement really means
is that God has laid down a minimum proportion between the good and evil deeds of a nation.
As long as that nation is able to maintain that minimum proportion, its existence is tolerated in
order that it might be able to show its performance. Once a nation crosses that minimum limit,
it is denied any further respite. (For further explication of this point see Nuh 71: 4-10 and 12.)
(৭:৩৪) পেতযক জািতর জনয অবকােশর একিট সময় িনিদরষ রেয়েছ৷ তারপর যখন েকান জািতর সময় পূণর হেয় যােব তখন এক মুহূতরকােলর জেনযও
তােক িবলিমত বা তরািনত করা হেব না৷ ২৭
২৭. অবকােশর সময় িনিদরষ করার মােন এ নয় েয, পেতযক জািতর জেনয বছর,মাস, িদন ধের একিট আয়ুসাল িনিদরষ করা হয় এবং এ সময়িট েশষ হেয় েযেতই তােক
অবিশযই খতম কের েদয়া হয়৷বরং এর অথর হেচ, পেতযক জািতেক দিনয়ায় কাজ করার েয সুেযাগ েদয়া হয়, তার কমরকােণর মেধয ভাল ও মেনর আনুপািতক হার
কমপেক কতটুকু বরদাশত করা েযেত পাের, এ অেথর তার কাজ করার একিট ৈনিতক সীমানা িচিহত করা হয়৷ যতিদন একিট জািতর মন গণগেলা তার ভাল গণাবলীর
তুলনায় ঐ আনুপািতক হােরর সবরেশষ সীমার মেধয অবসান করেত থােক ততিদন তােক তার সমস অসৎকমর সেতও অবকাশ েদয়া হয়, আর যখন তা ঐ সবরেশষ সীমানা
পার হেয় যায় তখন এ ধরেনর অসৎ বৃিতসমন ও অসৎকমরশীল জািতেক আর েকান বাড়িত অবকাশ েদয়া হয়না৷ (সূরা নূেহর ৪-১০-১২ আয়াত দষবয)৷

‫ن اّتَقككى‬
ِ ‫عَلْيُككْم َآَيككاِتي َفَمك‬
َ ‫ن‬
َ ‫صككو‬
ّ ‫ل ِمْنُكْم َيُق‬
ٌ‫س‬
ُ ‫َيا َبِني َآَدَم ِإّما َيْأِتَيّنُكْم ُر‬
﴾7:35﴿ ‫ن‬
َ ‫حَزُنو‬
ْ ‫ل ُهْم َي‬
َ ‫عَلْيِهْم َو‬
َ ‫ف‬
ٌ ‫خْو‬
َ ‫ل‬
َ ‫ح َف‬
َ ‫صَل‬
ْ ‫َوَأ‬
(7:35) Children of Adam! If Messengers come to you from amongst yourselves who
rehearse to you My signs, then those who shun disobedience and mend their ways shall
have nothing to fear, nor shall they grieve.
(৭:৩৫) (আর সৃিষর সূচনাপেবরই আলাহ একথা পিরষার বেল িদেয়েছনঃ) েহ বনী আদম! মেন েরেখা, যিদ েতামােদর কােছ েতামােদর মধয েথেক
েকান রাসূল এেস েতামােদরেক আমার আয়াত শনােত থােক , তাহেল েয বযিক আমার নাফরমানী করা েথেক িবরত থাকেব এবং িনেজর কমরনীিতর
সংেশাধন কের েনেব, তার েকান ভয় এবং দঃেখর কারণ েনই৷

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

‫ب الّناِر ُهكْم ِفيَهكا‬
ُ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫ك َأ‬
َ ‫عْنَها ُأوَلِئ‬
َ ‫سَتْكَبُروا‬
ْ ‫ن َكّذُبوا ِبَآَياِتَنا َوا‬
َ ‫َواّلِذي‬
﴾7:36﴿ ‫ن‬
َ ‫خاِلُدو‬
َ
(7:36) And those who reject Our revelations as false and turn away from them in
arrogance, they shall be the inmates of Hell; and there shall they abide. *28
*28. Reference to the continuous unremitting punishment of the unbelievers occurs invariably
on occasions where the Qur'an narrates the coming down of Adam and Eve from Paradise. (See
al-Baqarah 2: 38-9 ; Ta Ha 20: 123-4.) What has been said here should be considered in relation
to the fact that at the very start of man's earthly life he was informed of the evil results of
unbelief. (See Towards Understanding the Qur'an, vol. 1, AI 'Imran 3: n.69, pp.268-9 - Ed.)
(২:৩৬) আর যারা আমার আয়াতেক িমথযা বলেব এবং তার সােথ িবেদাহতাক আচরণ করেব, তারাই হেব জাহানােমর অিধবাসী, েসখােন থাকেব তারা
িচরকাল৷ ২৮
২৮. কুরআন মজীেদর েযখােনই আদম ও হাওয়া আলাইিহমাস সালােমর জানাত েথেক নািমেয় েদবার ঘটনা উেলিখত হেয়েছ৷ (েযমন েদখুন সূরা আল বাকারার ৪ রকূ ও
সূরা তা-হা এর ৬ রকূ) েসখােনই একথা বলা হেয়েছ৷ কােজই এখােনও এিটেক এই একই ঘটনার সােথ সমিকরত মেন করা হেব৷ অথরাৎ যখন মানব জািতর জীবেনর
সূচনা হিচল িঠক তখনই একথািটর পিরষাভােব বুিঝেয় েদয়া হেয়িছল৷(েদখুন সূরা আেল ইমরান, ৬৯ টীকা)

ْ‫ك َيَنككاُلُهم‬
َ ‫ب ِبَآَيككاِتِه ُأوَلِئ‬
َ ‫ل ك َك كِذًبا أَْو َك كّذ‬
ِّ ‫عَلى ا‬
َ ‫ن اْفَتَرى‬
ِ ‫ظَلُم ِمّم‬
ْ ‫ن َأ‬
ْ ‫َفَم‬
‫ن َمككا‬
َ ‫سُلَنا َيَتَوّفْوَنُهْم َقككاُلوا َأْي ك‬
ُ ‫جاَءْتُهْم ُر‬
َ ‫حّتى ِإَذا‬
َ ‫ب‬
ِ ‫ن اْلِكَتا‬
َ ‫صيُبُهْم ِم‬
ِ ‫َن‬
‫سِهْم َأّنُهْم‬
ِ ‫عَلى َأْنُف‬
َ ‫شِهُدوا‬
َ ‫عّنا َو‬
َ ‫ضّلوا‬
َ ‫ل َقاُلوا‬
ِّ ‫ن ا‬
ِ ‫ن ُدو‬
ْ ‫ن ِم‬
َ ‫عو‬
ُ ‫ُكْنُتمْ َتْد‬
﴾7:37﴿ ‫ن‬
َ ‫َكاُنوا َكاِفِري‬
(7:37) Who is more unjust then he who invents a falsehood, ascribing it to Allah, or who
rejects His revelation as false? Their full portion of God's Decree shall reach them, *29
until Our deputed angels come to them to take charge of their souls, and say: 'Where are
the deities now, those whom you invoked besides Allah?' They will say: 'They are all
gone away from us.' And they shall bear witness against themselves that they were
unbelievers.
*29. All men, whether good or bad, have been granted a definite term in this world which they
will spend and obtain their share of worldly happiness and misery.
(৭:৩৭) একথা সুসষ, েয বযিক ডাহা িমথযা কথা বািনেয় আলাহর কথা িহেসেব পচার কের অথবা আলাহর সতয আয়াতসমূহেক িমথযা বেল তার
েচেয় বড় জােলম আর েক হেব? এ ধরেনর েলােকরা িনেজেদর তকদীেরর িলখন অনুযায়ী তােদর অংশ েপেত থাকেব ২৯ অবেশেষ েসই সময় উপিসত
হেব যখন আমার পাঠােনা েফেরশতারা তােদর পাণ হরণ করার জেনয তােদর কােছ এেস যােব৷ েস সময় তারা (েফেরশতারা) তােদরেক িজেজস করেব,

বেলা এখন েতামােদর েসই মাবুদরা েকাথায়, যােদরেক েতামরা ডাকেত, আলাহেক বাদ িদেয়? তারা বলেব, সবাই আমােদর কাছ েথেক অনিহরত হেয়
েগেছ এবং তারা িনেজরাই িনেজেদর িবরেদ সাকয েদেব েয, বাসিবক পেকই তারা সতয অসীকারকারী িছল৷
২৯. অথরাৎ দিনয়ায় যতিদন তােদর অবকােশর েময়াদ িনধরািরত থাকেব ততিদন তারা এখােন থাকেব এবং েয ধরেনর ভাল বা মন জীবন যাপন করার কথা তােদর নসীেব
েলখা থাকেব, েসই ধরেনর জীবন তারা যাপন করেব৷

ِ‫لْن كسِ ِفككي الّنككار‬
ِْ ‫ن َوا‬
ّ ‫جك‬
ِ ‫ن اْل‬
َ ‫ن َقْبِلُكْم ِم‬
ْ ‫ت ِم‬
ْ ‫خَل‬
َ ‫خُلوا ِفي ُأَمٍم َقْد‬
ُ ‫ل اْد‬
َ ‫َقا‬
ْ‫جِميًعككا َقككاَلت‬
َ ‫حّتككى ِإَذا اّداَرُكككوا ِفيَهككا‬
َ ‫خَتَهككا‬
ْ ‫ت ُأ‬
ْ ‫ت ُأّمٌة َلَعَنك‬
ْ ‫خَل‬
َ ‫ُكّلَما َد‬
‫ن الّنككاِر‬
َ ‫ضكْعًفا ِمك‬
ِ ‫عكَذاًبا‬
َ ‫ضّلوَنا َفَآِتِهْم‬
َ ‫لِء َأ‬
َ ‫لُهْم َرّبَنا َهُؤ‬
َ ‫لو‬
ُِ ‫خَراُهْم‬
ْ ‫ُأ‬
﴾7:38﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َتْعَلُمو‬
َ ‫ن‬
ْ ‫ف َوَلِك‬
ٌ ‫ضْع‬
ِ ‫ل‬
ّ ‫ل ِلُك‬
َ ‫َقا‬
(7:38) Allah ivill say: 'Enter the fire of Hell and join the nations of jinn and men that
have gone before You.' As a nation enters Hill, it will curse the one that went before it,
and when all are gathered there, the last of them shall say of the first: 'Our Lord! These
are the ones who led us astray. Let their torment be doubled in Hell-Fire.' He will
answer: 'Each will have a doubled torment; although you do not know.' *30
*30. As it is, each group of people is followed, even as it is preceded, by others. A group which
inherits an error of outlook and conduct from its predecessors passes on the same, in turn, to
future generations. In addition, whereas a group owes its wrong-doing partly to the wrongdoing of its predecessors, it will also be held responsible for leaving behind an evil legacy for
the future generations. The Qur'an, therefore, pronounces a double punishment on such a group:
it will incur punishment for its own misdeeds and also for leaving behind such a legacy for the
coming generations. A number of traditions elucidate this point. According to one such
tradition the Prophet (peace be on him) said: 'He who introduces a misleading innovation which
does not please God and His Messenger shall be held guilty for the sins of all those who follow
that innovation without lessening in the least the burden [of sins] of those who followed the
innovation,' (Cf. Ibn Majah, Muqaddimat Bab Man Ahya Sunnah qad umitat, where the words
are slightly different - Ed.) According to another tradition, he said: 'The responsibility for all
the murders committed in the world is shared by the first son of Adam [i.e. Cain] for he was the
first to have innovated murder.' (See Bukhari, Kitab al-Jana'iz, Bab Qawlih 'alay al-Salam
Yu'addhab al-Mayyit bi Ba'd Buka'i ahlih 'alayh - Ed.)
We thus know that the individual or group responsible for introducing a wrong idea or practice
is not only responsible to the extent of those sins, but shares the responsibility of the sins of all
those who are influenced by him. As long as the evil effects of that influence continue, their
sins will be continually added to his account. This also shows that a person is not only
accountable for the good or bad deeds that he commits. In fact he is also accountable for the
influence of those deeds on others.

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

This may be illustrated by considering the case of someone who indulges in unlawful sex. All
those whose bad examples, evil company, and inducements to evil caused a man to indulge in
such an act have a share in the sin that he committed. The persons who influenced him in turn
had been influenced by others. Were this chain of influence traced back to its ultimate origin,
the blame would be fixed on the first person who demonstrated this unlawful way for satiating
the sexual urge.
This does not detract from the fact that anyone who indulged in fornication is also accountable
for the sin he committed. This is so because when he committed a sin he did so because he
failed to make proper use of his capacity to distinguish between good and evil with which he
had been endowed. He also did not pay due heed to the voice of his conscience, and mobilize
the power of self-control given him. Nor did he benefit from the knowledge of good and evil
transmitted to him by pious men nor was he inspired by the noble examples of the God-fearing.
Nor did he learn any lesson from the evil consequences of sexual misconduct. Instead, he
totally succumbed to blind sexual lust which sought gratification at all cost. This much relates
to the responsibility of the person who indulged in sexual misconduct.
But there is another dimension of that person's evil conduct - his propagation of that same evil
among others which ruined the lives of countless people belonging to his own generation and to
the generations that follow. It is also possible that he might have been afflicted by some general
disease which he then communicated to his own generation and also to the generations that
followed. His sexual misconduct might also have given birth to illegitimate children, unjustly
passing on the burden of their upbringing to others, and making his offspring - without any
justification - co-sharers in the fortunes and even the inheritance of others. The wrong that is
thus perpetrated persists for many generations. Likewise, it is also possible that the said
criminal might, by his cunning, have led an innocent girl to sexually corrupt behaviour. That in
turn is likely to awaken evil propensities in her which wreck the lives and homes of countless
families, even generations. Also, by setting an evil example for his children, relatives, friends
and the society at large a fornicator is likely to cast a bad influence on people around him and
infect others with moral corruption. The evil consequences of such an act thus linger on for a
long time. The moral corruption that ultimately, engulfs the society owes its origin to the
person who initially introduced an evil. Justice, therefore, demands that such a culprit should
also be held responsible for the subsequent evils which may be traced back to his initial act of
corruption.
The same holds true for good deeds. The reward for the heritage of goodness left behind by our
predecessors from the earliest times should inevitably go to the credit of those men of the past
who have continually transmitted that heritage to posterity down to our own time. If our own
generation takes good care of that heritage, enriches it and passes it on to the coming

generation, it also deserves due reward for that. As long as our good acts leave a trace of good
influence on history and continue to cast a good influence on people, mankind will reap the
benefits of those acts.
This is the Qur'anic view of retribution. Every sensible person will agree that such a
dispensation alone can ensure perfect justice. Appreciation of this concept should dispel the
idea of those who believe that men can be fully rewarded or punished for their deeds within the
confines of this worldly life. Likewise, such an appreciation should also dispel the views of
those who believe that the transmigration of souls alone can ensure full justice to all men. Such
people have blundered because they have neither grasped fully the nature and consequences of
human acts nor the nature and requirements of perfect justice. It is obvious that the
consequences of individuals' acts are not visible during their life-span - say sixty or seventy
years or so. Instead, human activities, both good and evil, influence the lives of countless
people belonging to countless generations. One cannot, therefore, be brought to justice during
one's own lifetime, since only a small part of the consequences of those acts have yet come to
the surface. Moreover, the limited possibilities available in the present world are quite
inadequate for bringing people to justice. Just consider the hideous crime of someone who
pushes us to a world war. As things stand, the catastrophic consequences of such a crime would
affect the lives of billions of men through the ages. Is there any punishment - physical, spiritual
or material - which can be deemed even remotely, proportionate to that crime? Likewise, no
worldly reward, however valuable, can adequately recompense for the noble services rendered
by a philanthropist which will benefit numerous people for thousands of years.
Having viewed the question from this angle. one readily, concludes that there must necessarily
be life in the Hereafter such that full justice can be meted out to everyone. Here all human
beings are brought together, their full records are made available, and the reckoning is made by
God Himself Whose knowledge embraces literally everything. Additionally, men should be
granted unlimited spans of life, and infinite possibilities should be made available for receiving
compensation.
A little reflection on this will help us see how false the doctrine of the transmigration of souls
is. Those who subscribe to this doctrine fail to realize that eternal life is needed to mete out
recompense to people for the deeds they commit during their relatively brief spans of life. If
one were to believe in the unending cycle of life and death it would become impossible to
reward or punish anyone for his actions, for each span of life would go on accumulating
endlessly. The arrears would never be cleared.
(৭:৩৮) আলাহ বলেবনঃ যাও, েতামরাও েসই জাহানােম চেল যাও, েযখােন চেল েগেছ েতামােদর পূেবরর অিতকান িজন ও মানবেগাষী৷ পেতযকিট
দলই িনেজর পূবরবতরী দেলর পিত অিভসমাত করেত করেত জাহানােম পেবশ করেব৷ অবেশেষ যখন সবাই েসখােন একত হেয় যােব তখন পরবতরী
পেতযকিট দল পূবরবতরী দেলর বযাপাের বলেব, েহ আমােদর রব! এরাই আমােদর েগামরাহ কেরেছ, কােজই এেদরেক আগেনর িদগণ শািস দাও৷
জওয়ােব বলা হেব, পেতযেকর জনয িদগণ শািসই রেয়েছ িকন েতামরা জােনা না৷ ৩০
৩০. অথরাৎ সবরাবসায় েতামােদর পেতযকিট দল েকান না েকান দেলর পূববর তরী বা পরবতরী দল িছল৷ েকান দেলর পূববর তরী দল উতরািধকার িহেসেব যিদ তার জেনয ভুল ও

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
িবপথগামী িচনা ও কমর েরেখ িগেয় থােক, তাহেল েস িনেজও েতা তার পরবতরীেদর জেনয একই ধরেনর উতরাধীকার েরেখ দিনয়া েথেক িবদায় িনেয়েছ৷ যিদ একিট দেলর
পথভষ হবার িকছুটা দায়-দািয়ত তার পূবরবতরীেদর ওপর বতরায়৷ তাহেল তার পরবতরীেদর পথভষ হবার েবশ িকছু দায় দািয়ত তার িনেজর ওপর বতরায়৷ তাই বলা হেয়েছ
পেতযেকর জেনয িদগণ শািসই রেয়েছ৷ একিট শািস হেচ, িনেজর ভুল পথ অবলমেনর এবং অনয শািসিট অনযেদরেক ভুল পথ েদখাবার ৷ একিট শািস িনেজর অপরােধর
এবং অনয শািসিট অনযেদর জেনয পূবরােহর অপরােধর উতরািধকার েরেখ আসার৷
এ িবষয়বসিটেক হাদীেস িনেমাকভােব বযাখযা করা হেয়েছঃ
--------------------------"েয বযিক আলাহ ও তঁার রসূল অপছন কেরন এমন েকান নতুন িবভািনকর কােজর সূচনা কের, তার ঘােড় েসই সমস েলােকর পথভষতার েগানাহও েচেপ বসেব৷ যারা
তার উদািবত পেথ চেলেছ৷ তেব এ জেনয ঐ েলােকেদর িনেজেদর দায়- দািয়ত েমােটই লাঘব হেব না"৷
অনয একিট হাদীেস বলা হেয়েছঃ
-------------------------------------"এই দিনয়ায় েয বযিকেকই অনযায়ভােব হতযা করা হয়, েসই অনযায় হতযাকােণর পােপর একিট অংশ হযরত আদেমর েসই পথম সনানিটর আমলনামায় িলিখত হয়, েয
তার ভাইেক হতযা কেরিছল৷ কারণ মানুষ হতযার পথ েস-ই সবরপথম উনুক কেরিছল"৷
এ েথেক জানা যায় েয বযিক দল েকান ভুল িচনা বা কমরনীিতর িভত রচনা কের েস েকবল িনেজর ভূেলর ও েগানােহর জেনয দায়ী হয় না বরং দিনয়ায় যতগেলা েলাক তার
দারা পভািবত হয় তােদর সবার েগানােহর দািয়েতর একিট অংশও তার আমলনামায় িলিখত হেত থােক৷যতিদন তার এ েগানােহর পভাব িবসৃত হেত থােক , ততিদন তার
আমলনামায় েগানাহ িলিখত হেত থােক ৷ তাছাড়া এ েথেক একথাও জানা যায় েয, পেতযক বযিকর েনকী বা েগানােহর দায়-দািয়ত েকবল তার িনেজর ওপরই বতরায় না
বরং অনযানয েলাকেদর জীবেন তার েনকী ও েগানােহর িক পভাব পেড় েস জেনয ও তােক জবাবিদিহ করেত হেব৷
উদাহরণ সরপ একজন বযিভচারী কথাই ধরা যাক৷ যােদর িশকা ও অনুশীলেনর েদােষ, যােদর সাহচেযরর পভােব, যােদর খারাপ দৃষান েদেখ এবং যােদর উৎসাহ দােনর ফেল
ঐ বযিকর মেধয িযনা করার পবণতা সৃিষ হয়, তারা সবাই তার িযনাকাির হেয় গেড় উঠার বযাপাের অংশীদার৷আবার ঐ েলাকগেলাও পূবরবতরী েযসব েলাকেদর কােছ েথেকই
কুদৃেষ, কুিচনা, কুসংকল ও কুকেমরর পেরাচানা উতরািধকার িহেসেব লাভ কের তােদর কঁােধ পযরন ও তার দায় -দািয়ত িগেয় েপৌছায়৷ এমন িক এ ধারা অগসর হেত হেত
েসই পথম বযিকেত িগেয় েঠেক েয সবরপথম ভান পেথ েযৌন লালসা চিরতাথর কের মানব জািতেক ভুল পেথ পিরচািলত কেরিছল৷ এ িযনাকারীর আমলনামায় এ অংশিট তার
সমকালীনেদর ও পূবরবতরী েলাকেদর সােথ সমিকরত৷ এছাড়া েস িনেজও িনেজর িযনা ও বযিভচােরর জেনয দায়ী৷তােক ভাল -মেনর মেধয পাথরকয করার েয কমতা েদয়া
হেয়িছল, তােক েয িবেবকেবাধ দান করা হেয়িছল আতসংযেমর েয শিক তার মেধয গিচত রাখা হেয়িছল, সৎেলাকেদর কাছ েথেক েস ভাল -মন ও নযায় -অনযােয়র েয
জান লাভ কেরিছল, তার সামেন সৎেলাকেদর েযসব দৃষান সমুজল িছল, েযৌন অসদাচােরর অশভ পিরণােমর বযাপাের তার েযসব তথয জানা িছল - েস সেবর েকানিটেকও
েস কােজ লাগায়িন৷ উপরন েস িনেজেক কামনা বাসনার এমন একিট অন আেবেগর হােত েসাপদর কের িদেয়িছল েয েকান পকাের িনেজর আকাংখা চিরতাথর করাই িছল
যার অিভপায়৷ তার আমলমানার এ অংশিট তার িনেজর সােথ সমিকরত ৷তারপর এ বযিক েয েগানাহ িনেজ কেরেছএবং যােক সকীয় পেচষায় লালন কের চেলেছ,তােক
অনয েলাকেদর মেধয ছিড়েয় িদেত শর কের৷ েকাথাও েথেক েকান েযৌন েরােগর জীবানু িনেজর মেধয বহন কের আেন, তারপর তােক িনেজর বংশধরেদর মেধয এবং না
জািন আেরা েয কত শত বংশদরেদর মেধয ছিড়েয় কত শত েলাকেদর জীবন ধংস কের তা একমাত আলাহই ভাল জােনন৷ েকাথাও িনেজর শতবীজ েরেখ আেস ৷েয
িশশিটর লালন-পালেনর দািয়ত তারই বহন করা উিচত িছল, তােক অনয একজেনর উপাজরেনর অৈবধ অংশীদার , তার সনানেদর অিধকার েথেক েজারপূবরক িহসসা
গহণকারী এবং তার উতরািধকাের অৈবধ শরীক বািনেয় েদয়৷ এ অিধকার হরেণর ধারা চলেত থােক পরবতরী বংশধরেদর মেধয বহদূর পযরন৷েকান কুমারী েমেয়েক ফুসিলেয়
বযিভচােরর পেথ েটেন আেন এবং তার মেধয এমন অসৎ গণাবলী সৃিষ কের যা তার েথেক অনযেদর মেধয পিতফিলত হেয় নাজািন আেরা কত দূর কত পিরবার ও কত
বংশধরেদর মেধয েপৌেছ যায় এবং কত পিরবাের িবকৃিত আেন৷িনেজর সনান -সনিত আতীয় -সজন , বনু-বানব ও সমােজর অনযানয েলাকেদর সামেন েস িনেজর চিরেতর
একিট কুদৃষান েপশ কের এবং অসংখয েলােকর চিরত নেষর কারণ হেয় দঁাড়ায়৷ পরবতরী বংশধরেদর মেধয এর পভাব চলেত থােক দীঘরকালবযাপী৷ ইনসােফর দাবী হেচ , এ
বযিক সমাজ েদেহ েযসব িবকৃিত সৃিষ করেলা েসগেলা তারই আমলনামায় িলিখত হওয়া উিচত এবং ততিদন পযরন িলিখত হওয়া উিচত যতিদন তার সরবরাহ করা অসৎ
বৃিত ও অসৎকােজর ধারা দিনয়ায় চলেত থােক৷
সৎকাজ ও পূণরকেমরর বযাপারিটও অনুরপ৷ আমােদর পূবরপুরষেদর কাছ েথেক আমরা েনকীর ও সৎকােজর েয উতরািধকার লাভ কেরিছ তার পিতদান তােদর সবার পাওয়া
উিচত , যারা সৃিষর শর েথেক িনেয় আমােদর যুগ পযরন ওগেলা আমােদর কােছ হসানর করার বযাপাের অংশ িনেয়েছন৷এ উতরািধকার িনেয় তােক সযেত েহফাজত করার
ও তার উনিত িবধােনর জেনয আমরা েযসব পেচষা চালােবা ও পদেকপ গহণ করেবা তার পিতদান আমােদরও পাওয়া উিচত৷ তারপর িনেজেদর সৎপেচষার েযসব িচহ ও
পভাব আমরা দিনয়ায় েরেখ যােবা েসগেলাও আমােদর সৎকােজর িহেসেবর খাতায় ততিদন পযরন ধারাবািহকভােব িলিখত হওয়া উিচত যতিদন ও িচহ ও পভাবগেলা
দিনয়ার বুেক অকত থাকেব , মানব জাতীর বংশধরেদর মেধয এর ধারাবািহকতা চলেত থাকেব এবং আলাহর সৃিষকূল এর দারা লাভবান হেত থাকেব৷
পিতিট িবেবকবান বযিকই একথা সীকার করেবন েয, কুরআন মজীদ পিতদােনর এই েয পদিত উপসাপন কেরেছ একমাত এ পদিতেতই সিঠক ও পূণর ইনসাফ পিতিষত
হেত পাের৷ এ সতযিট ভালভােব অনুধাবন করেত সকম হেল যারা পিতদােনর জেনয এ দিনয়ায় বতরমান জীবনেকই যেথষ মেন কেরেছ এবং যারা মেন কেরেছ েয,
জনানেরর মাধযেম মানুষেক তার কােজর পুেরাপুির পিতদান েদয়া েযেত পাের তােদর সবার িবভািনও সহেজ দূর হেয় েযেত পাের৷ আসেল এ উভয় দলই মানুেষর
কাযরকলাপ, তার পভাব, ফলাফলও পিরণিতর বযািপ এবং নযায়সংগত পিতদান ও তার দাবীসমূহ অনুধাবন করেত সকম হয়িন৷ একজন েলােকর বয়স এখন ষাট বছর৷েস
তার এ ষাট বছেরর জীবেন ভাল -মন যা িকছু কেরেছ না জািন উপেরর িদেক কত দূর পযরন তার পূবর- পুরষরা এ কােজর সােথ জিড়ত এবং তােদর ওপর এর দািয়ত
বতরায়৷ আর তােদরেক এর পুরষার বা শািস দান করা েকানকেমই সমব নয়৷ তারপর এ বযিক আজ েয ভাল বা মন কাজ কেরেছ তার মুতুয সােথ সােথই তা বন হেয় যােব
না বরং তার পভাব চলেত থাকেব আগামী শত শত বছর পযরন৷ হাজার হাজার, লােখা, লােখা, বরং েকািট েকািট মানুেষর মেধয তা ছিড়েয় পড়েব৷ এর পভাব চলা ও িবসৃত
হওয়া পযরন তার আমলনামার পাতা েখালা থাকেব৷ এ অবসায় আজই এ দিনয়ার জীবেন এ বযিকেক তার উপাজরেনর সমূণর ফসল পদান করা েকমন কের সমব? কারণ
তার উপাজরেনর এক লাখ ভােগর এক ভাগও এখেনা অিজরত হয়িন৷ তাছাড়াও এ দিনয়ার সীিমত জীবন ও এর সীিমত সমাবনা আদেত এমন েকান অবকাশই রােখিন যার
ফেল এখােন েকান বযিক তার উপাজরেনর পূণর ফসল লাভ করেত পাের৷ মেন করন, েকান বযিক দিনয়ায় এক মহাযুেদর আগন জািলেয় েদয় এবং তার এ মারাতক
অপকেমরর িবপুল িবষময় কুফল হাজার বছর পযরন েকািট েকািট মানুেষর মেধয ছিড়েয় পেড়৷ এ বযিকর এ ধরেনর অপরােধর কথা একবার কলনা করন৷ এ দিনয়ার যত বড়

ধরেনর ৈদিহক, ৈনিতক, মানিসক অথবা বসগত শািস েদয়া সমব , তার েকানিটও িক তার এ অপরােধর নযায়সংগত পিরপূণর শািস হেত পাের? অনুরপভােব দিনয়ার
সবচাইেত বড় েয পুরসােরর কথা কলনা করা েযেত পাের , তার েকানিটও িক এমন এক বযিকর জেনয যেথষ হেত পাের, েয সারা জীবন মানবজািতর কলযাণােথর কাজ কের
েগেছ এবং হাজার হাজার বছর পযরন অসংখয মানব সনান যার পেচষার ফসল েথেক লাভবান হেয় চেলেছ? েয বযিক কমর ও পিতদােনর িবষয়িটেক এ দৃিষেত িবচার করেব
েস িনিশতভােব িবশাস করেব েয, কমরফেলর জেনয আসেল আর একিট জগেতর পেয়াজন, েযখােন পূেবরর ও পেরর সমগ মানব েগািষ একত হেব৷ সকল মানুেষর আমলনামা
বন হেয় যােব, িহেসব গহণ করার জেনয একজন সবরজ ও সবরজানময় আলাহ িবচােরর আসেন বসেবন, এবং কেমরর পুেরাপুির পিতদান লাভ করার জেনয মানুেষর কােছ
সীমহীন জীবন ও তার চারিদেক পুরষার ও শািসর অেঢল সমাবনা িবরািজত থাকেব৷
আবার এই একই িদক সমেকর িচনা করেল জনানরবাদীেদর আর একিট েমৌিলক ভািনর অপেনাদনও হেত পাের৷ এ ভািনিটই তােদর পুনজরেনর ধারণা সৃিষেত সাহাযয
কেরেছ৷ তারা এ সতযই উপলিব করেত পােরিন েয,মাত একিট সংিকপ পঞাশ বছেরর জীবেনর কমরফল েভােগর জেনয তার চাইেত হাজার গণ েবশী দীঘর জীবেনর পেয়াজন
হয়৷অথচ পুনজরেনবােদর ধারণা মেত তার পিরবেতর পঞাশ বছেরর জীবন েশষ হেতই িদতীয় আর একিট দািয়তপূণর জীবন, তারপর তৃতীয় জীবন এ দিনয়ােতই শর হেয়
যায়৷ আবার এসব জীবেন পুনরায় শািসেযাগয বা পুরষােযাগয বহ কাজ করা হেত থােক৷ এভােব েতা িহেসব চুেক যাওয়ার পিরবেতর আেরা বাড়েতই থাকেব এবং েকান িদন তা
খতম হওয়া সমব হেব না৷

َ ‫ل َفُذوُقوا اْلَعَذا‬
‫ب‬
ٍ‫ض‬
ْ ‫ن َف‬
ْ ‫عَلْيَنا ِم‬
َ ‫ن َلُكْم‬
َ ‫خَراُهْم َفَما َكا‬
ْ‫ل‬
ُِ ‫لُهْم‬
َ ‫ت ُأو‬
ْ َ‫َوَقال‬
﴾7:39﴿ ‫ن‬
َ ‫سُبو‬
ِ ‫ِبَما ُكْنُتْم َتْك‬
(7:39) Then the preceding ones will say to the succeeding ones: 'You were in no way
superior to us; taste, then, this torment for your deeds.' *31
*31. In addition to the above verse, the Qur'an elsewhere recounts the mutual incriminations of
the dwellers of Hell. For example, it occurs in Sarah al-Saba' in the following words: 'Could
you but see when the wrong-doers will be made to stand before their Lord, throwing back the
word (of blame) on one another! Those who had been abased will say to the arrogant ones:
"Had it not been for you, we should certainly have been believers!" The arrogant ones will say,
to those who had been abased: "Was it we who kept you back from Guidance after it reached
you? Nay, rather it was you yourselves who transgressed" ' (al-Saba' 34: 31-2). This means that
since the misguided people themselves were not keen on receiving the right guidance, they fell
victims even more to the forces of misguidance. Out of their own excessive worldliness they
chose to follow their ungodly leaders. Granted that it was the forces of misguidance which had
invented ideologies such as materialism, excessive worldliness, and nationalism. But when
people were attracted to these false ideologies, they did so out of their own weaknesses. These
forces of evil achieved success because what they offered was to the utmost liking of the
people. Again, the people who were tempted to embrace counterfeit religious ideologies were
themselves to blame for falling prey to them since there was an inner urge in them to accept
such ideologies. Rather than submitting to the One True God and to rigorous moral discipline,
they looked for deities that would help them to achieve their worldly purposes. Naturally, they
invented deities of their own liking. They also desired the intercession of those who would let
them grow in worldiness and godlessness, and yet who would also ensure their redemption in
the Next World. As they preferred a religion that would not make their life a bit dry, permissive
religious cults which did not object to any kind of self-indulgence were developed. This
establishes clearly that the external forces of evil alone are not to blame. The people who
succumb to evil and error equally share the blame. This neither condones the role of those who
seek to mislead others, nor detracts from the responsibility of those who choose to be misled.
(৭:৩৯) পথম দলািট িদতীয় দলেক বলেবঃ (যিদ আমরা েদাষী হেয় থািক) তাহেল েতামরা েকান িদক িদেয় আমােদর চাইেত েশষ িছেল?এখন

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
িনেজেদর কৃতকেমরর ফলসরপ আযােবর সাদ গহণ কেরা৷ ৩১
৩১. জাহানামবাসীেদর এ পারসিরক সংলাপ ও তকর -িবতকর কুরআন মজীেদর আেরা কেয়কিট সােন বিণরত হেয়েছ৷ েযমন সূরা সাবার ৪ রকূেত বলা হেয়েছঃ হায়!েতামরা
যিদ েসই সময়িট েদখেত েপেত যখন এ জােলমরা িনেজেদর রেবর সামেন দঁাড়ােব এবং পরসেরর িবরেদ অিভেযাগ আনেত থাকেব৷ যােদরেক দিনয়ায় দবরল কের রাখা
হেয়িছল তারা বড়ও শিকশালীর আসেন বেসিছল তােদরেক বলেবঃ েতামরা না থাকেল আমরা মুিমন হতাম৷ বড় ও শিকশালীর আসেন যারা বেসিছল তারা দবরল কের রাখা
েলাকেদরেক জবাব েদেবঃ েতামােদর কােছ যখন েহদায়াত এেসিছল তখন আমরা িক তা গহণ করেত েতামােদরেক বাধা িদেয়িছলাম? না ,তা নয়, বরং েতামরা িনেজরাই
অপরাধী িছেল৷ এর অথর হেচ , েতামরা আবার কেব েহদায়ােতর পতযাশী িছেল? আমরা যিদ েতামােদরেক দিনয়ার েলাভ েদিখেয় িনেজেদর দােস পিরণত কের থািক,
তাহেল েতামরা েলাভী িছেল বেলই েতা আমােদর ফঁােদ পা িদেয়িছেল৷ যিদ আমরা েতামােদরেক িকেন িনেয় থািক, তাহেল েতামরা িনেজরাই েতা িবেকাবার জেনয ৈতরী
িছেল, তেবই না আমরা িকনেত েপেরিছলাম৷ যিদ আমরা েতামােদরেক বসবাদ, ৈবষিয়ক লালসা, জািতপূজা এবং এ ধরেনর আেরা িবিভন পকার েগামরাহী ও অসৎকােজ
িলপ কের থািক, তাহেল েতামরা িনেজরাই েতা আলাহর িদক েথেক মুখ িফিরেয় িনেয় দিনয়ার পূজারী েসেজিছেল, তােবই না েতামরা আলাহর আনুগতয ও আলাহর
ইবাদেতর িদেক আহবানকারীেদরেক তযাগ কের আমােদর ডােক সাড়া িদেয়িছেল৷ যিদ আমরা েতামােদর ধেমরর আবরেণ পতািরত কের থািক, তাহেল েয িজিনসগেলা আমরা
েপশ করিছলাম এবং েতামরা লুেফ িনিচেল, েসগেলার চািহদা েতা েতামােদর িনেজেদর মেধযই িছল৷ েতামরা আলাহেক বাদ িদেয় এমন সব পেয়াজন পূরণকারী খুঁেজ
েবড়ািচেল, যারা েতামােদর কােছ েকান ৈনিতক িবধােনর আনুগেতযর দাবী না কেরই েকবলমাত েতামােদর ইিসত কাজই কের েযেত থাকেতা৷ আমরা েসই সব পেয়াজন
পুরণকারী ৈতরী কের েতামােদরেক িদেয়িছলাম৷ েতামরা আলাহর আেদশ িনেষধ েথেক েবপেরায়া হেয় দিনয়ার কুকুর হেয় িগেয়িছেল এবং েতামােদর পাপ েমাচেনর জনয
এমন এক ধরেনর সুপািরশকারী খুঁেজ েবড়ািচেল যারা েতামােদর েগানাহ মাফ কিরেয় েদয়ার সমস দািয়ত িনেজেদর কঁােধ িনেয় েনেব৷ আমরা েসই সব সুপািরশকারী ৈতরী
কের েতামােদর কােছ সরবরাহ কেরিছলাম৷ েতামরা িনরস ও সাদ -গনহীন দীনদাবী, পরেহজগারী, কুরবানী , এবং পেচষা ও সাধনার পিরবেতর নাজাতলােভর জেনয অনয
েকান পেথর সনান চািচেল৷ েতামরা চািচেল এ পেথ েতামােদর পবৃিত ও লালসা চিরতাথর করেত নানা পকার সাদ আহরণ করেত েকান বাধা না থােক এবং পবৃিত লালসা
েযন সব রকেমর িবিধ -িনেষেধর আওতামুক থােক৷ আমরা এ ধরেনর সুদৃশয ধমর উদাবন কের েতামােদর সামেন েরেখিছলাম ৷ েমাটকথা দায় -দািয়ত েকবল আমােদর
একার নয়৷ েতামরাও এেত সমান অংশীদার৷ আমরা যিদ েগামরাহী সরবরাহ কের থািক, তাহেল েতামরা িছেল তার খিরদার৷

‫سكَماِء‬
ّ ‫ب ال‬
ُ ‫ح َلُهكْم َأْبكَوا‬
ُ ‫ل ُتَفّتك‬
َ ‫عْنَها‬
َ ‫سَتْكَبُروا‬
ْ ‫ن َكّذُبوا ِبَآَياِتَنا َوا‬
َ ‫ن اّلِذي‬
ّ ‫ِإ‬
‫جكِزي‬
ْ ‫ط َوَككَذِلكَ َن‬
ِ ‫خَيككا‬
ِ ‫سكّم اْل‬
َ ‫ل ِفي‬
ُ ‫جَم‬
َ ‫ج اْل‬
َ ‫حّتى َيِل‬
َ ‫جّنَة‬
َ ‫ن اْل‬
َ ‫خُلو‬
ُ ‫ل َيْد‬
َ ‫َو‬
﴾7:40﴿ ‫ن‬
َ ‫اْلُمجِْرِمي‬
(7:40) Surely the gates of Heaven shall not be opened for those who reject Our signs as
false and turn away ' from them in arrogance; nor shall they enter Paradise until a camel
passes through the eye of a needle. Thus do We reward the guilty ones.
(৭:৪০) িনিশতভােব েজেন রােখা, যারা আমার আয়াতসমূহেক িমথযা সাবযস কেরেছ এবং এর িবরেদ িবেদাহ কেরেছ, তােদর জনয কখেনা আকােশর
দরজা খুলেব না৷ তােদর জানােত পেবশ এমনই অসমব বযাপার েযমন সূঁেচর িছেদ উট পেবশ করােনা৷ অপরাধীরা আমার কােছ এভােবই বদলা েপেয়
থােক৷

﴿

َ ‫ظككاِلِمي‬
‫ن‬
ّ ‫جكِزي ال‬
ْ ‫ك َن‬
َ ‫غكَواشٍ َوَككَذِل‬
َ ‫ن َفكْوِقِهْم‬
ْ ‫جَهّنَم ِمَهاٌد َوِم‬
َ ‫ن‬
ْ ‫َلُهْم ِم‬
﴾7:41

(7:41) Hell shall be their bed, and also above them their covering. Thus do We reward
the wrong-doers.
(৭:৪১) তােদর জনয িবছানাও হেব জাহানােমর এবং ওপেরর আচাদনও হেব জাহানােমর ৷ এ পিতফল আিম জােলমেদরেক িদেয় থািক৷

َ ‫ل ُوسْكَعَها ُأوَلِئ‬
‫ك‬
ّ ‫سككا ِإ‬
ً ‫ف َنْف‬
ُ ‫ل ُنَكّلك‬
َ ‫ت‬
ِ ‫حا‬
َ ‫صككاِل‬
ّ ‫عِمُلككوا ال‬
َ ‫ن َآَمُنوا َو‬
َ ‫َواّلِذي‬

﴾7:42﴿

َ ‫خاِلُدو‬
‫ن‬
َ ‫جّنِة ُهْم ِفيَها‬
َ ‫ب اْل‬
ُ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫َأ‬

(7:42) And those who believe and do good - We do not impose upon any of them a
burden beyond his capacity. They are the people of Paradise. And there they shall abide.
(৭:৪২) অনযিদেক যারা আমার আয়াত েমেন িনেয়েছ এবং সৎকাজ কেরেছ - আর এ পযরােয় আিম কাউেক তার সামেথরর অিতিরক দািয়ত অপরণ কির
না- তারা হেচ জানাতবাসী৷ েসখােন তারা থাকেব িচরকাল৷

‫لْنَهككاُر َوَقككاُلوا‬
َْ ‫حِتِهُم ا‬
ْ ‫ن َت‬
ْ ‫جِري ِم‬
ْ ‫ل َت‬
ّ‫غ‬
ِ ‫ن‬
ْ ‫صُدوِرِهْم ِم‬
ُ ‫عَنا َما ِفي‬
ْ ‫َوَنَز‬
‫لك َلَقكْد‬
ُّ ‫ن َهكَداَنا ا‬
ْ ‫ل َأ‬
َ ‫ي َلكْو‬
َ ‫ل اّلِذي َهَداَنا ِلَهكَذا َوَمكا ُكّنكا ِلَنْهَتكِد‬
ِّ ‫حْمُد‬
َ ‫اْل‬
‫جّنُة ُأوِرْثُتُموَها ِبَما ُكنُْتككْم‬
َ ‫ن ِتْلُكُم اْل‬
ْ ‫ق َوُنوُدوا َأ‬
ّ‫ح‬
َ ‫ل َرّبَنا ِباْل‬
ُ‫س‬
ُ ‫ت ُر‬
ْ ‫جاَء‬
َ
﴾7:43﴿ ‫ن‬
َ ‫َتْعَمُلو‬
(7:43) We shall strip away all rancour from their hearts, *32 and rivers shall flow beneath
them, and they shall say: 'All praise be to Allah Who has guided us on to this. Had it not
been for Allah Who granted us guidance, we would not be on the Right Path. Surely the
Messengers of our Lord did indeed come down with truth.' Then a voice will cry out to
them: 'This is the Paradise which you are made to inherit as a reward for your deeds.' *33
*32. If there develops any rancour or ill-will among good people during the course of their
worldly lives, such rancour and will be removed in the Hereafter. Their hearts will be purged of
all hostile feelings and they will enter Paradise as cordial friends. They will not feel envious
towards those who had formerly been opposed or hostile to them that they share with them the
bounties of Paradise. Significantly, 'Ali once recited this very verse and remarked: 'I wish that I
and 'Uthman and Talhah and al-Zubayr will be among those about whom God has said: "And
We shall take away all rancour from their hearts" ' (verse 43). (See Qurtubi's comments on
verse 43 - Ed.)
Reflection on the verse leads one to conclude that out of His mercy, God will first purge the
righteous of their blemishes. This will be done before admitting them to Paradise. Thus they
will enter Paradise in a state of untainted purity.
*33. This refers to something of a fine and delicate character that will take place in Paradise.
Instead of boasting about their virtuous deeds which led them to Paradise, the righteous will
thank and praise God profusely and acknowledge His grace and mercy without which they
could never have entered Paradise. On the other hand, God will not impress His bounty upon
the righteous; He will rather emphasize that Paradise is granted to them by way of
compensation for their righteous conduct, that it is the fruit of their hard labour; that it is not
like the crumbs of charity but a fair recompense for their striving. The subtlety involved here is

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

further brought into relief by the fact that the above response will not be made by God. It will
rather be just announced to them.
What is said above about the Hereafter may be discerned in the attitude of the righteous in the
world itself. The wicked and arrogant ones take great pride in their worldly attainments and
ascribe them to their own efforts. They firmly, believe that what they have achieved is the fruit
of their labour. Swaved by such notions, they continue to act even more haughtily. Conversely
the righteous look upon all the bounties which they receive as favours from God. Accordingly,
they thank and praise Him out of gratitude. The more they are lavished with worldly favours,
the more humble and generous they become. Moreover, they do not suffer from the illusion that
their righteousness will certainly earn them their salvation. On the contrary, they consistently
repent over their lapses and earnestly turn to God in the hope that He will pardon them out of
His grace and mercy. They are always fearful of God's reckoning lest their evil deeds are found
to outweigh their good deeds. According to a tradition the Prophet (peace he on him) said:
'Know well that none will he able to enter Paradise by dint of his good deeds.' When asked if
that would apply to him as well, the Prophet (peace he on him) replied: 'Yes, in my case as
well; unless God covers me with His mercy and favour.' (Bukhari, Kitab al-Riqaq, 'Bab al-Qasd
wa a Mudawamah ala al-Amal' - Ed.)
(৭:৪৩) তােদর মেন পরষেরর িবরেদ যা িকছু গািন থাকেব তা আিম েবর কের েদেবা৷৩২ তােদর িনমেদেশ ঝরণাধারা পবািহত হেব এবং তারা বলেবঃ
“পশংসা সব আলাহরই জনয, িযিন আমােদর এ পথ েদিখেয়েছন৷ আমরা িনেজরা পেথর সনান েপতাম না যিদ না আলাহ আমােদর পথ েদখােতন
আমােদর রেবর পাঠােনা রসূলগণ যথাথর সতয িনেয়ই এেসিছেলন৷” েস সময় আওয়াজ ধিনত হেবঃ “েতামােদরেক এই েয জানােতর উতরািধকারী
বানােনা হেয়েছ, এটা েতামরা লাভ কেরেছা েসই সমস কােজর পিতদােন েযগেলা েতামরা অবযাহতভােব করেত৷” ৩৩
৩২. অথরাৎ দিনয়ার জীবেন এ সৎেলােকেদর মেধয িকছু পারষিরক িতকতা, মেনামািলনয ও ভুল বুঝাবুিঝ েথেক থাকেলও আেখরােতর জীবেন তা সব দূর কের েদয়া হেব৷
তােদর মন পরসেরর বযাপাের পিরষার হেয় যােব৷ তারা পরসর আনিরকতা সমন অকৃিতম বনু িহেসেব জানােত পেবশ করেব৷ দিনয়ায় েয বযিক তােদর িবেরাধী িছল, েয
তােদর সােথ লড়াই কেরিছল এবং তােদর িবরপ সমােলাচনা কেরিছল, তােক তােদর সােথ জানােতর আপযায়েন শািমল থাকেত েদেখ তােদর কােরার মেন েকান পকার
কেষর উেদক হেব না৷ এ আয়াতিট পেড় হযরত আলী (রা) বেলিছেলনঃ আিম আশা কির, আলাহ আমার, উসমােনর , তালহার ও েযাবাইেরর মেধয সাফাই কের েদেবন৷
এ আয়াতিটেক বযাপকভােব দৃিষেত েদখেল আমরা এ িসনােন উপনীত হেত পাির, েয, এ দিনয়ায় সৎেলাকেদর গােয় ঘটনাকেম েযসব দাগ বা কলংক েলেগ যায়, েসই
দাগগেলা সহকাের আলাহর তােদর েক জানােত িনেয় যােবন না৷ বরং েসখােন পেবশ করার আেগ িনেজর িবেশষ অনুগেহ তােদরেক এেকবাের পিরচন ও পিবত কের েনেবন
এবং একিট িনেরট িনষলংক জীবন িনেয় তারা েসখােন উপিসত হেবন৷
৩৩. েবেহশত এ ধরেনর একিট মজার বযাপার ঘটেব৷ জানাতবাসীরা িনেজেদর কােজর জেনয অহংকাের েমেত উঠেব না৷ তারা একথা মেন করেব না েয, তারা এমন কাজ
কেরিছল যার িবিনমেয় তােদর জেনয জানাত অবধািরত হেয় িগেয়িছল৷ বরং তারা আলাহর পশংসা ও তঁার পিত কৃতজতা পকােশ পঞমুখ হেয় উঠেব৷ তারা বলেব, এসব
আমােদর পিতপালেকর অনুগহন নয়েতা আমরা এর েযাগয িছলাম না৷ অনযিদেক আলাহ তােদর ওপর িনেজর অনুগেহর বড়াই করেবন না৷ বরং জবােব বলেবন , েতামরা
িনেজেদর কােজর িবিনমেয়র এ মযরাদার অিধকারী হেয়েছা৷ েতামােদরেক যা িকছু েদয়া হেচ সবই েতামােদর েমহনেতর ফসল৷এগেলা িভেক কের পাওয়া নয় বরং
েতামােদর পেচষার ফল এবং েতামােদর কােজর মজুরী৷ িনেজেদর েমহনেতর িবিনমেয় েতামরা এসব সমানজনক জীিবকা অজরেনর অিধকার লাভ করেছা৷ অপর িদেক আলাহ
তঁার জবােবর কথা এ ভােব উেলখ কেরেছন না েয, আিম একথা বলেবা, রবং িতিন বলেছন , আওয়াজ ধিনত হেব, -এভােব বণরনা করার কারেণ িবষয়িট আেরা েবশী
আকষরনীয় হেয় উেঠেছ৷
আসেল এই একই ধরেনর সমকর দিনয়ায় আলাহ ও তঁার েনক বানােদর মেধযও রেয়েছ৷ দরাচারী েলােকরা দিনয়ায় েয অনুগেহ লাভ কের থােক তারা েস জেনয গবর কের
েবড়ায়৷ তারা বেল থােব ,এসব আমােদর েযাগযতা , পেচষা , -সাধনা ও কেমরর ফল৷ আর এ জেনযই তারা পেতযকিট অনুগহলােভর কারেণ আেরা েবশী অহংকারী ও িবপযরয়
সৃিষকারীেত পিরণত হেত থােক৷ িবপরীত পেক সৎেলােকরা েয েকান অনুগহ লাভ করক না েকন তােক অবিশয আলাহ দান মেন কের৷ েস জেনয তঁার পিত কৃতজতা
পকাশ কের৷ আলাহর দান যতই বাড়েত থােক ততই তারা িবনয় পকাশ করেত থােক৷এবং ততই তােদর দয়া, েসহ ও বদানযতা েবেড় েযেত থােক৷ তারপর আেখরােতর
বযাপােরও তারা িনেজেদর সৎকেমরর জেনয অহংকাের মত হয় না৷তারা একথা বেল না েয, তােদর গনাহখাতা িনিশতভােবই মাফ কের েদয়া হেব৷ বরং িনেজেদর ভুল-তিটর
জেনয তারা আলাহর কােছ কমা চাইেত থােক৷ িনেজেদর কমরফেলর পিরবেতর আলাহর করনা ও েমেহরবানীর ওপর পূণর আসাশীল হয়৷ তারা সবসময় ভয় করেত থােক

৷তােদর আমলনামায় পােপযর পিরবেতর েকান েদনার খাত েবর হেয় না আেস৷ বুখারী ও মুসিলম উভয় হাদীস গেন উিলখত হেয়েছ নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম
বেলেছনঃ
-----------------------------"খুব ভালভােবই েজেন রােখা, েতামরা িনছক িনেজেদর কমরকােণর েজাের জানােত পেবশ করেত পারেব না"৷ েলােকরা িজজাস করেলা , েহ আলাহর রসূল ! আপিনও ?
জবাব িদেলন, হঁা আিমও--------------------------------------------------------"হঁা, তেব যিদ আলাহ আমােক তঁার রহমত ও অনুগেহর আবরেণ েঢেক েনন"৷

‫عكَدَنا رَّبَنككا‬
َ ‫جكْدَنا َمككا َو‬
َ ‫ب الّناِر َأنْ َقْد َو‬
َ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫جّنِة َأ‬
َ ‫ب اْل‬
ُ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫َوَناَدى َأ‬
ْ ‫ن َبْيَنُهكْم َأ‬
‫ن‬
ٌ ‫ن ُمكَؤّذ‬
َ ‫حّقا َقاُلوا َنَعكْم َفكَأّذ‬
َ ‫عَد َرّبُكْم‬
َ ‫جْدُتْم َما َو‬
َ ‫ل َو‬
ْ ‫حّقا َفَه‬
َ
﴾7:44﴿ ‫ن‬
َ ‫ظاِلِمي‬
ّ ‫عَلى ال‬
َ ‫ل‬
ِّ ‫َلْعَنُة ا‬
(7:44) And the people of Paradise shall cry to the people of Hell: 'Surely we have found
our Lord's promise to us to be true. have you also found true what your Lord has
promised you?' 'Yes', they shall answer; and a herald shall cry out among them: 'Allah's
curse be upon the wrong-doers'; *34
*34. The people of A'raf (Heights) will be the people who are neither righteous enough to enter
Paradise nor wicked enough to he cast into Hell. They will, therefore, dwell at a place situated
between the two.
(৭:৪৪) তারপর জানােতর অিধবাসীরা জাহানােমর অিধবাসীেদরেক েডেক বলেবঃ “আমােদর রব আমােদর সােথ েয সমস ওয়াদা কেরিছেলন তার
সবগেলােকই আমরা সিঠক েপেয়িছ, েতামােদর রব েযসব ওয়াদা কেরিছেলন , েতামরাও িক েসগেলােক সিঠক েপেয়েছা? ৩৪
৩৪. অথরাৎ এ আরাফাবাসীরা হেব এমন একদল েলাক, যােদর জীবেনর ও কমরকােণর ইিতবাচক বা ভাল িদক এত েবশী শিকশালী হেব না, যার ফেল তারা জানাতলাভ
করেত সকম হয়, আবার এর েনিতবাচক বা খারাপ িদকও এত েবশী খারপ হেব না, যার ফেল তােদর জাহানােম িনেকপ করা েযেত পাের৷ তাই তারা জানাত ও জাহানােমর
মাঝখােন একিট সীমান এলাকায় অবসান করেব৷

َ ‫خَرِة َكككاِفُرو‬
‫ن‬
ِ‫ل‬
َْ ‫جا َوُهْم ِبا‬
ً ‫عَو‬
ِ ‫ل َوَيْبُغوَنَها‬
ِّ ‫ل ا‬
ِ ‫سِبي‬
َ ‫ن‬
ْ‫ع‬
َ ‫ن‬
َ ‫صّدو‬
ُ ‫اّلِذينَ َي‬
﴾7:45﴿

(7:45) upon those who hinder men from the path of Allah and seek to make it crooked;
and disbelieve in the Hereafter.'
(৭:৪৫) ” তারা জবােব বলেবঃ “হঁা”, তখন একজন েঘাষণাকারী তােদর মধয েঘাষণা করেবঃ “আলাহর লানত েসই জােলমেদর ওপর, যারা মানুষেক
আলাহর পেথ চলেত বাধা িদেতা এবং তােক বঁাকা কের িদেত চাইেতা আর তারা িছল আেখরাত অসীকারকারী৷”

‫سككيَماُهْم‬
ِ ‫ل ِب‬
ّ ‫ن ُك‬
َ ‫ل َيْعِرُفككو‬
ٌ ‫جككا‬
َ ‫ف ِر‬
ِ ‫ع كَرا‬
ْ‫ل‬
َْ ‫عَلككى ا‬
َ ‫ب َو‬
ٌ ‫جككا‬
َ‫ح‬
ِ ‫َوَبْينَُهَمككا‬
﴿ ‫ن‬
َ ‫طَمُعككو‬
ْ ‫خُلوَها َوُهكْم َي‬
ُ ‫عَلْيُكْم َلْم َيكْد‬
َ ‫لٌم‬
َ‫س‬
َ ‫ن‬
ْ ‫جّنِة َأ‬
َ ‫ب اْل‬
َ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫َوَنادَْوا َأ‬
﴾7:46

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(7:46) And between the two there will be a barrier, and on the Heights will be men who
will recognize each person by his mark and will cry out to the people of Paradise: 'Peace
be to you.’ These will be the ones who had not yet joined them in Paradise, though they
long to do so.
(৭:৪৬) এ উভয় দেলর মাঝখােন থাকেব একিট অনরাল৷ এর উচু সােন (আ’রাফ) অপর িকছু েলাক থাকেব৷ তারা জানােত পেবশ কেরিন িঠকই
িকন তারা হেব তার পাথরী৷

‫جَعْلَنا َمَع‬
ْ ‫ل َت‬
َ ‫ب الّناِر َقاُلوا َرّبَنا‬
ِ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫صاُرُهْم ِتْلَقاَء َأ‬
َ ‫ت َأْب‬
ْ ‫صِرَف‬
ُ ‫َوِإَذا‬
﴾7:47﴿ ‫ن‬
َ ‫ظاِلِمي‬
ّ ‫اْلَقْوِم ال‬
(7:47) And when the eyes of the people of the Heights will be turned towards the people
of Hell they will say: 'Our Lord! Do not cast us among the wrongdoing people.'
(৭:৪৭) তারা পেতযকেক তার লকেণর সাহােযয িচেন েনেব ৷ জানাতবাসীেদরেক েডেক তারা বলেবঃ “েতামােদর পিত শািন েহাক! ”আর যখন তােদর
দৃিষ জাহানামবাসীেদর িদেক িফরেব , তারা বলেবঃ “েহ আমােদর রব! এ জােলেমর সােথ আমােদর শািমল কেরা না৷”

‫غَنككى‬
ْ ‫سيَماُهْم َقاُلوا َما َأ‬
ِ ‫ل َيْعِرُفوَنُهْم ِب‬
ً ‫جا‬
َ ‫ف ِر‬
ِ ‫عَرا‬
ْ‫ل‬
َْ ‫ب ا‬
ُ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫َوَناَدى َأ‬
﴾7:48﴿ ‫ن‬
َ ‫سَتْكِبُرو‬
ْ ‫جْمُعُكْم َوَما ُكْنُتْم َت‬
َ ‫عْنُكْم‬
َ
(7:48) And the people of the Heights will cry out to the men whom they would recognize
by their marks. saving: 'Neither your numbers nor the riches of which you were proud
availed you.
(৭:৪৮) আবার এ আরােফর েলােকরা জাহানােমর কেয়কজন বড় বড় বযিকেক তােদর আলামত েদেখ িচেন িনেয় েডেক বলেবঃ “েদখেল েতা েতামরা,
আজ েতামােদর দলবলও েতামােদর েকান কােজ লাগেলা না৷ আর েতামােদর েযই সাজ-সরঞামেক েতামরা অেনক বড় মেন করেত তাও েকান
উপকাের আসেলা না৷

ٌ ‫خكْو‬
‫ف‬
َ ‫ل‬
َ ‫جّنكَة‬
َ ‫خُلككوا اْل‬
ُ ‫حَمكٍة اْد‬
ْ ‫لك ِبَر‬
ُّ ‫ل َيَناُلُهُم ا‬
َ ‫سْمُتْم‬
َ ‫ن َأْق‬
َ ‫لِء اّلِذي‬
َ ‫َأَهُؤ‬
﴾7:49﴿ ‫ن‬
َ ‫حَزُنو‬
ْ ‫ل َأْنُتْم َت‬
َ ‫عَلْيُكْم َو‬
َ
(7:49) Are these not the ones of whom you swore that Allah shall grant them nothing of
His mercy?' To such it will be said: 'Enter Paradise. You have no cause to fear, nor shall
you grieve.'
(৭:৪৯) আর এ জানােতর অিধবাসীরা িক তারাই নয়, যােদর সমেকর েতামরা কসম েখেয় বলেত, এেদরেক েতা আলাহ তঁার রহমত েথেক িকছুই
েদেবন না? আজ তােদরেকই বলা হেয়েছ, পেবশ কেরা জানােত- েতামােদর েকান ভয়ও েনই, দঃখও েনই৷”

‫ن اْلَمككاِء َأْو‬
َ ‫عَلْيَنا ِم‬
َ ‫ضوا‬
ُ ‫ن َأِفي‬
ْ ‫جّنِة َأ‬
َ ‫ب اْل‬
َ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫ب الّناِر َأ‬
ُ ‫حا‬
َ‫ص‬
ْ ‫َوَناَدى َأ‬
﴾7:50﴿ ‫ن‬
َ ‫عَلى اْلَكاِفِري‬
َ ‫حّرَمُهَما‬
َ ‫ل‬
َّ ‫ن ا‬
ّ ‫ل َقاُلوا ِإ‬
ُّ ‫ِمّما َرَزَقُكُم ا‬
(7:50) And the people of the Fire will cry out to the people of Paradise: 'Pour out some
water on us or throw at us something of what Allah has bestowed upon you.' They will
reply: 'Allah has forbidden them to the deniers of the truth.
(৭:৫০) আর জাহানামবাসীরা জানাতবাসীেদরেক েডেক বলেবঃ “সামানয একটু পািন আমােদর উপর েঢেল দাও না৷ অথবা আলাহ েতামােদর েয
িরিযক দান কেরেছন তা েথেকই িকছু েফেল দাও না৷” তারা জবােব বলেবঃ “আলাহ এ দিট িজিনসই সতয অসীকারকারীেদর জনয হারাম কেরেছন।

‫سككاُهْم‬
َ ‫حَياُة الّدْنَيا َفككاْلَيْوَم َنْن‬
َ ‫غّرْتُهُم اْل‬
َ ‫خُذوا ِديَنُهْم َلْهًوا َوَلِعًبا َو‬
َ ‫ن اّت‬
َ ‫اّلِذي‬
﴾7:51﴿ ‫ن‬
َ ‫حُدو‬
َ‫ج‬
ْ ‫سوا ِلَقاَء َيْوِمِهْم َهَذا َوَما َكاُنوا ِبَآَياِتَنا َي‬
ُ ‫َكَما َن‬
(7:51) who have made their religion a sport and play. and whom the life of the world has
beguiled. So on that Day We shall forget them in the manner they forget their meeting of
this Day with Us and persist in denying Our revelations.' *35
*35. The trialogue between the People of Paradise, the People of the Fire. and the People of the
Heights gives some indication of the tremendous range of human faculties in the Next World.
These faculties would increase to such an extent that the People of Paradise, the People of the
Fire and the People of the Heights will be able to see, hear and talk to one another. Other
Qur'anic statements about the Hereafter enable us to realize that the laws operating in the Next
World will be altogether different from those in the present. Notwithstanding this, men's
personalities will not undergo any such change.
Those who cannot perceive any thing beyond the present limited world and who are incapable
of imagining scales bigger than the ones relating to the present world, make fun of the
statements in the Qur'an and Hadith about life in the Hereafter. This only betrays their poverty
of understanding and imagination. The fact, however, is that the possibilities for life are not as
narrow and limited as their minds.
(৭:৫১) যারা িনেজেদর দীনেক েখলা ও েকৌতুেকর বযাপাের বািনেয় িনেয়িছল এবং দিনয়ার জীবন যােদরেক পতারণায় িনমিজত কেরিছল৷ ” আলাহ
বেলন, “আজ আিমও তােদরেক িঠক েতমিনভােব ভুেল যােবা েযভােব তারা এ িদনিটর মুেখামুখী হওয়ার কথা ভুেল িগেয়িছল এবং আমার আয়াতসমূহ
অসীকার কেরিছল৷” ৩৫
৩৫. জানাতবাসী, জাহানামবাসী ও আরাফবাসীেদর এ পারসিরক সংলাপ েথেক পরকালীন জীবেন মানুেষর শিকর সীমানা কতদূর িবসৃত হেব তা িকছুটা আনাজ করা
েযেত পাের৷ েসখােন দৃিষশিক এতিট পসািরত হেব যার ফেল জানাত, জাহানাম বা আরােফর েলােকরা যখন ইচা পরষরেক েদখেত পারেব৷ েসখােন আওয়াজ ও
শবণশিকও হেব বহ দূরপালার৷ ফেল এ পৃথক পৃথক জগেতর েলােকরা পরষেরর সােথ অিত সহেজই কথাবাতরা বলেত পারেব৷ পরকালীন জগত সমেকর এ বণরনা এবং এ
ধরেনর আেরা েযসব বণরনা করআেন উদৃত হেয়েছ তা এ ধারণা সৃিষ করার জেনয যেথষ েয, েসখানকার জীবন যাপেনর িবধান আমােদর এ দিনয়ার পকৃিতক িবধান েথেক
সমূণর িভনতর হেব৷ অবিশয এখােন আমােদর েয বযিক-সতা রেয়েছ েসখােনও তাই থাকেব৷ তেব েযসব েলােকর মিসস ও পাকৃিতক জগেতর সীমানার মেধয আবদ হেয়
রেয় েগেছ এবং বতরমান জীবন ও এর সংিকপ পিরমাপগেলা ছাড়া বযাপকতর েকান িজিনেসর ধারণা যােদর মিসেস সংকুলান হয় না, তারা কুরআন ও হাদীেসর এ ধরেনর
বণরনাগেলােক অবাক দৃিষেত েদেখ থােক এবং কখেনা কখেনা এগেলােক িবদপও কের থােক৷ এভােব তারা তােদর বুিদর সলতারই পমাণ িদেয় থােক িকন পকৃতপেক
এেদর বুিদর পিরসর যতটা সংকীংণ জগত ও জীবেনর সমাবনাগেলা ততটা সংকীণর নয়৷

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

﴿

َ ‫حَمًة ِلَق كْوٍم ُيْؤِمُنككو‬
‫ن‬
ْ ‫عْلٍم ُهًدى َوَر‬
ِ ‫عَلى‬
َ ‫صْلَناُه‬
ّ ‫ب َف‬
ٍ ‫جْئَناُهْم ِبِكَتا‬
ِ ْ‫َوَلَقد‬
﴾7:52

(7:52) Surely We have brought them a Book which We expounded with knowledge; *36 a
guidance and a mercy to those who believe ' *37
*36. The Qur'an has spelled out in some detail what constitutes the fundamental reality,
explained the attitude that man ought to adopt, and laid down the fundarnentals of the way of
life that he ought to follow. The tails laid down in the Book in this regard are based on sound
knowledge rather than on conjecture and fancy.
*37. The contents and teachings of the Book are perspicuous enough to show one the right way.
Moreover, the life-style of those who believe in this Book also bears out, by the beneficial
effects it produces on human life, how well it guides man. The blessings of the Qur'an become
evident if man first notes the healthy changes that it brings about in his outlook, character and
morals.
The above verse in fact alludes to the wonderful effect belief in the Qur'an had on the lives of
the Companions of the Prophet (peace be on him).
(৭:৫২) আিম এেদর কােছ এমন একিট িকতাব িনেয় এেসিছ যােক পূণর জােনর িভিতেত িবশদ বযাখযামূলক কেরিছ
পথিনেদরশন ও রহমতসরপ ৩৭

৩৬

এবং যা ঈমানদরেদর জনয

৩৬. অথরাৎ এেত পিরপূণর িবশাদ িববরণ সহাকের যথাথর সতয, মানুেষর জেনয দিনয়ার জীবেন সিঠক কমরনীিত এবং সিঠক জীবন পদিতর মূল নীিতগেলা িক িক, তা বণরনা
করা হেয়েছ৷ তারপর িনছক আনাজ অনুমান বা ধারণা -কলনার িভিতেত এ িবসািরত িববরণগেলা েদয়া হয়িন৷বরং িনেভরজাল ও িনভুরল জােনর িভিতেত েদয়া হেয়েছ৷
৩৭. অথর হেচ, পথমত এ িকতােবর িবষয়বস ও এর িশকাবলী এত েবশী সুষষ েয, এ িনেয় িচনা -ভাবনা করেল েযেকান মানুেষর সতয পথ পিরষারভােব েভেস উঠেত
পাের৷ তাছাড়া যারা এ িকতাবেক মােন, এ িকতাবিট তােদর জীবেন েকমন সিঠক পথিনদরশনা েদয় এবং এিট েয কতবড় অনুগহ তা তােদর জীবেন ঘটনাবলী েথেক কাযরত
পতযক করা েযেত পাের৷ এর পভাব গহণ করার সােথ সােথই মানুেষর মন-মানস, ৈনিতক বৃিত ও চিরেত সেবরাতম ৈবপিবক পিরবতরন শর হেয় যায়৷ এ িকতাবেবর পিত
ঈমান আনার পর সাহাবােয় েকরােমর জীবেন েয িবসয়কর পিরবতরেনর সূচনা হেয়িছল তার িদেক এখােন ইশারা করা হেয়েছ৷

ُ‫ن َقْبكل‬
ْ ‫سكوُه ِمك‬
ُ ‫ن َن‬
َ ‫ل اّلكِذي‬
ُ ‫ل َتْأِويَلُه َيْوَم َيْأِتي َتْأِويُلُه َيُقو‬
ّ ‫ن ِإ‬
َ ‫ظُرو‬
ُ ‫ل َيْن‬
ْ ‫َه‬
‫شكَفُعوا َلَنككا َأْو ُنكرَّد‬
ْ ‫شَفَعاَء َفَي‬
ُ ‫ن‬
ْ ‫ل َلَنا ِم‬
ْ ‫ق َفَه‬
ّ‫ح‬
َ ‫ل َرّبَنا ِباْل‬
ُ‫س‬
ُ ‫ت ُر‬
ْ ‫جاَء‬
َ ‫َقْد‬
‫عْنُهْم َما َكاُنوا‬
َ ‫ل‬
ّ‫ض‬
َ ‫سُهْم َو‬
َ ‫سُروا َأْنُف‬
ِ‫خ‬
َ ‫ل َقْد‬
ُ ‫غْيَر اّلِذي ُكّنا َنْعَم‬
َ ‫ل‬
َ َ‫َفَنْعم‬
﴾7:53﴿ ‫ن‬
َ ‫َيْفَتُرو‬
(7:53) Are they waiting for the fulfilment of its warning? *38 On the Day that warning is
fulfilled, those that have neglected it before will say: 'The Messengers of Our Lord did
indeed bring forth the truth. Are there any intercessors who will now plead on our

behalf? Or, can we be restored to life that we might perform differently from that which
we did? ' *39 They surely ended in utter loss, and the lies they had fabricated failed them.
*38. The position of the people in question is as follows. The difference between good and evil
was first explained to them, and yet they turned a deaf ear to it. Then some people established a
good example by following the right path notwithstanding the dominant trend towards error.
The wholesome effect of righteous conduct became evident from the lives of such people, but it
made no impression on the people concerned. Their persistence in error could only mean one
thing: that they would only learn the lesson the hard way when they saw the painful effects of
their error. Such people are like stupid patients who neither follow the directions of the
physician, nor learn any lesson from their own observations of the many patients who have
been cured of their diseases by following the directions of physicians. Thesc people will realize
- if they realize at all - on their death-bed that their ways were foolish and fatal.
*39. Such people will long to return to the world, pleading that they will believe in the truth
which they had rejected since they have now witnessed it. They will also ensure that their
attitude will be different from that which had been before. For a fuller discussion of this plea
and the rejoinder to it see al-An'am 6: 27-8; Ibrahim 14: 44 and 45; al-Sajdah 32: 12-13; alFatir 35: 37; al-Zumar 39: 56-9; and al-Mu'min 40: 11-12.
(৭:৫৩) এখন এরা িক এর পিরবেতর এ িকতাব েয পিরমােণর খবর িদেচ তার পতীকায় আেছ? ৩৮ েযিদন েসই পিরনাম সামেন এেস যােব েসিদন
যারা তােক উেপকা কেরিছল তারাই বলেবঃ “যথাথরই আমােদর রেবর রসূলগণ সতয িনেয় এেসিছেলন৷ এখন িক আমরা এমন িকছু সুপািরশকারী পােবা
যারা আমােদর পেক সুপািরশ করেব? অথবা আমােদর পুনরায় িফের েযেত েদয়া হেব, যােত পূেবর আমরা যা িকছু করতাম তা পিরবেতর এখন অনয
পদিতেত কাজ কের েদখােত পাির?” ৩৯ তারা িনেজরাই িনেজেদরেক কিতগস কেরেছ এবং েয িমথযা তারা রচনা কেরিছল তােদর সবটুকুই আজ
তােদর কাছ েথেক উদাও হেয় েগেছ৷
৩৮. এ িবষয়বসিটেক অনয কথায় এভােব বলা েযেত পাের, এক বযিকেক অতযন যুিকসংগত পদিতেত সতয-িমথযার পাথরকয পিরষারভােব জািনেয় েদয়া হয় িকন এরপরও
েস তা মানেত পসত হয় না৷ তারপর তার সামেন িকছু েলাক সিঠক পেথ চেল েদিখেয়ও েদয় েয, ভূল পথ চলার সময় তারা েকমন িছল এবং এখন সিঠক পথ অবলমন
করার পর তােদর জীবেন কত ভাল পিরবতরন এেসেছ৷ িকন এ েথেকও ঐ বযিক েকান িশকা গহণ কের না তাহেল এর অথর এ দঁাড়ায় েয এখন ঐ বযিক িনেজর ভুল পেথ
চলার শািস লাভ করার পরই েকবল একথা েমেন েনেব েয, েস ভুল পেথ িছল৷ েয বযিক ডাকােরর জানগভর পরামশর গহণ কের না এবং িনেজর মত অসংখয েরাগীেক
ডাকােরর পরামশর মত চেল েরাগমুক হেত েদেখও তা েথেক েকান িশকা গহণ কের না, েস এখন মৃতুয শযযায় শািয়ত হেয়ই েকবল একথা সীকার করেব েয, েযভােব ও েয
পদিতেত েস জীবন যাপন কের আসিছল তা সিতযই তার জেনয ধংসকর িছল৷
৩৯. অথরাৎ তারা পুনবরার এ দিনয়ায় িফের আসার ইচা পকাশ করেব৷ তারা বলেব, আমােদর েয সেতযর খরব েদয়া হেয়িছল এবং তখন আমরা েয সতযিট েমেন
েনইিন,এখন চাকুষ েদখার পর আমরা েস বযাপাের েজেন েগিছ৷ কােজই এখন যিদ আমােদর আবার দিনয়ায় পািঠেয় েদয়া হয় তাহেল এখন আমােদর কমরপদিত আর
আেগর মত হেব না৷(এ িমনিত এবং এর িক জবাব েদয়া হেব তা জানার জেনয েদখুন সুরা আনআেমর আয়াত ২৭-২৮,ইবরাহীম ৪৪-৪৫,সাজদা ১২-১৩, ফােতর ৩৭,
যুমার ৫৬-৫৯,মুিমন১১-১২)৷

‫سككَتَوى‬
ْ ‫سّتِة َأّياٍم ُثّم ا‬
ِ ‫ض ِفي‬
َ ‫لْر‬
َْ ‫ت َوا‬
ِ ‫سَمَوا‬
ّ ‫ق ال‬
َ ‫خَل‬
َ ‫ل اّلِذي‬
ُّ ‫ن َرّبُكُم ا‬
ّ ‫ِإ‬
َ‫س َواْلَقَمكر‬
َ ‫شكْم‬
ّ ‫حِثيًثككا َوال‬
َ ‫ل الّنَهككاَر َيطُْلُبكُه‬
َ ‫شككي الّلْيك‬
ِ ‫ش ُيْغ‬
ِ ‫عَلككى اْلَعكْر‬
َ
ّ‫لك َرب‬
ُّ ‫ك ا‬
َ َ‫لْمكُر َتَبككار‬
َْ ‫ق َوا‬
ُ ‫خْلك‬
َ ‫ل َلكُه اْل‬
َ ‫ت ِبكَأْمِرِه َأ‬
ٍ ‫خَرا‬
ّ ‫سك‬
َ ‫جككوَم ُم‬
ُ ‫َوالّن‬
﴾7:54﴿ ‫ن‬
َ ‫اْلَعاَلِمي‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(7:54) Surely your Lord is none other than Allah, Who created the heavens and the earth
in six days, *40 and then ascended His Throne; *41 Who causes the night to cover the day
and then the day swiftly pursues the night; Who created the sun and the moon and the
stars making them all subservient to His command. Lo! His is the creation and His is the
command. *42 Blessed is Allah, *43 the Lord of the universe.
*40. The word 'day' in the above verse has been used either in the usual sense of the twentyfour hour unit of time, or in a more general sense of 'period' of time such as in the following
verses of the Qur'an:
Verily a Day in the sight of your Lord is like a thousand years of your reckoning (al-Hajj 22:
47).
The angels and the Spirit ascend unto Him on a Day the measure of which is fifty thousand
years (al-Ma'arij 70: 4. For further explanation see Fussilat 41, nn. 12-15.)
*41. It is quite difficult to appreciate fully the exact nature of the Qur'anic statement: '(Allah)
ascended the Throne.' One possibility is that after the creation of the universe God focused His
effulgence at a particular point in His Kingdom which is known as the Throne, from where He
showers the blessings of life and power, and governs the whole universe.
It is possible that the word 'Throne' stands for dominion and authority and that God's ascending
the Throne signifies His actual taking over the reins of the universe after having created it.
Whatever the exact meaning of the expression '(Allah) ascended the Throne', the main thrust of
the verse is that God is not just the creator of the universe, but is also its sovereign and ruler;
that after creating the universe He did not detach Himself from, nor become indifferent to, His
creation. On the contrary, He effectively rules over the universe as a whole as well as every part
of it. All power and sovereignty rest with Him. Everything in the universe is fully in His grip
and is subservient to His will. Every atom is bound in obedience to Him. The fate of everything
existent is in His Hands. Thus the Qur'an undermines the very basis of the misconception which
leads man at times to polytheism, and at others to self-glorification and so to rebellion against
God. This is the natural corollary of considering God divorced from the affairs of the universe.
In such cases, there are two possibilities. One, that beings other than God are considered to
have the power to make or mar man's destiny. Here, man is bound to turn to those beings in
devotion and subservience. The second possibility is for man to consider himself as the master
of his own destiny. Here, man considers himself independent of, and indifferent to, any higher
being.

It is significant that the words and figures of speech employed by the Qur'an to denote the
relationship between God and man are closely related to kingship, dominion, and sovereignty.
This is too conspicuous a fact to be missed by any careful student of the Qur'an. It is strange,
however, that it has led some superficial critics and persons of biased outlook to conclude that
the Qur'an reflects the milieu in which man's outlook was dominated by monarchical concepts,
and that therefore its 'author', who in their view was the Prophet Muhammad (peace be on him),
presented God as a sovereign ruler, an absolute monarch.
Quite contrary to this is the fundamental truth which the Qur'an emphatically affirms - God's
sovereignty over the heavens and the earth. It negates, with equal emphasis, that sovereignty
belongs to anyone else. Such a doctrine demolishes the very assumption on the basis of which
the above erroneous conclusion was derived. The Qur'anic concept of God's sovereignty is in
sharp contrast to the idea that creatures of God may lay claim to sovereignty and kingship. In
contrast to the weak, mortal kings of the world, God is eternal and all-powerfuL This
undermines the very basis of the misconceived criticism that Islam has a monarchical basis
since no hunian being can conform to the Islamic description of the sovereign. All sovereignty
vests in the One True God. Hence, all those who claim total or partial sovereignty either for any
person or group of people are merely cherishing an illusion. It is evident, therefore, that it is
totally inappropriate for man, who is a part of the universe created and governed by God, to
adopt any other attitude than that of acknowledging God as the only object of worship and as
the only sovereign in a societal and political sense.
*42. This is an elaboration of the idea propounded in the note immediately above explaining the
meaning of God's ascension to the Throne. To reiterate, God is not merely the sole creator but
also the only One Who commands and governs. He has not detached Himself from His
creation, leaving it to the care of others who might rule over it as they please. Nor has He
granted independence to His creation or any part of it so that they might function as they, wish.
On the contrary, His grip over the entire universe is very firm. He rules over it according to His
sovereign will. If we find alternation taking place between day and night, it is a result of God's
command. God has full power both to hold that process in abeyance, or to alter the very system
which causes the alternation. The heavenly bodies - the sun, the moon, and the stars - are all
absolutely powerless. They are totally subservient to God's overpowering will, and have been
yoked to function according to His command.
*43. The word barakah signifies growth and increase. The notions of elevation and greatness as
well as of permanence and stability are also an essential part of the word's meaning. Besides
these the word inalienably carries nuances of goodness and beneficence. To say that God is full
of barakah means that His goodness knows no bounds; that endless beneficence emanates from

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

Him; that He is the Exalted One Whose loftiness knows no end; that His beneficence and
loftiness are permanent, and thus they will never vanish or suffer decline. (For further
elaboration see Tafhim al-Qaradn, al-Furqan 25: nn. 1 and 19.)
(৭:৫৪) পকৃতপেক আলাহই েতামােদর রব, িযিন আকাশ ও পৃিথবী ছয় িদেন সৃিষ কেরেছন৷ ৪০ তারপর িতিন িনেজর কতৃরেতর আসেন সমাসীন হন৷
৪১
িতিন রাত িদেয় িদনেক েঢেক েদন তারপর রােতর েপছেন িদন েদৌিড়েয় চেল আেস৷ িতিন সূযর , চন ও তারকারাজী সৃিষ কেরন৷ সবাই তঁার
িনেদরেশর আনুগত ৷েজেন রােখা, সৃিষ তারই এবং িনেদরশও তঁারই৷ ৪২ আলাহ বড়ই বরকেতর অিধকারী ৪৩ িতিন সমগ িবশ জাহােনর মািলক ও
পিতপালক ৷
৪০. এখােন িদন শবিট পচিলত ২৪ ঘনার িদন অেথর অথবা যুগ বা কাল (PERIOD)অেথর বযবহত হেয় থাকেত পাের৷ েশেষাক অেথর কুরআেন একািধক বযবহার
লকনীয় ৷ েযমন সুরা হেজর ৬ রকূেত (আয়াত ৪৭ )বলা হেয়েছঃ
-----------------------------------(আর পকৃতপেক েতামরা েয িহসাব কেষ থােকা েসই দৃিষেত েতামার রেবর এখােন একিট িদন এক হাজার বছেরর সমান)৷
আবার সূরা মা'আিরজ-এর ৪নং আয়ােত বলা হেয়েছঃ
-----------------------------------------------(েফেরশতারা এ িজবীল তঁার িদেক আেরাহণ কের একিদেন, যার পিরমাণ পঞাশ হাজার বছর) ৷ তেব এখােন 'িদন' শেবর পকৃত তাৎপযর িক, তা আলাহই ভাল জােনন৷
(আেরা বযাখযার জেনয েদখুন , সূরা হামীম সাজদা-টীকা ১১-১৫)
৪১. আলাহর "ইিসওয়া আলাল আরশ"(কতৃরেতর আসেন সমাসীন হওয়া) এর িবসািরত সরপ অনুধাবন করা আমােদর পেক কিঠন৷ খুব সমবত সমগ িবশ -জাহান সৃিষর
পর মহান আলাহ েকান একিট সানেক তঁার এ অসীম সামােজযর েকন িনধরারণ কেরন এবং েসখােন িনেজর আেলােক রিশর িবচরণেক েকনীভূত কের েদন আর তারই নাম
েদন "আরশ" (কতৃরেতর আসন)৷ েসখান েথেক সমগ িবশ জাহােনর নব নব সৃিষর পিকয়া চলেছ ও কমাগত শিকর িবচরণ ঘেটেছ , েসই সােথ সৃিষ জগেতর পিরচালনা ও
বযবসাপনাও অবযাহত রেয়েছ৷আবার এও সমব হেত পাের েয, আরশ অথর শাসন কতৃরত এবং আরেশর ওপর সমাসীন হেয় যাওয়ার অথর হেচ, আলাহ এ িবশ -জাহান সৃিষ
করার পর এর শাসন দণ িনেজর হােত তুেল িনেয়েছন৷ েমাটকথা আরেশর ওপর সমাসীন হওয়ার িবসািরত অথর যাই েহাক না েকন, মহান ও সবরশিকমান আলাহ েয, এ
িবশ-জগেতর িনছক সষাই নন বরং এর পিরচালক ও বযবসাপকও একথা ভালভােব হদয়ংগম করােনাই কুরআেন এর উেলেখর আসল উেদশয৷ িতিন এ দিনয়ােক
অিসতশীল করার পর এর সােথ সমকরেচদ কের েকাথাও বেস যানিন৷ বরং কাযরত িতিনই সারা িবশ-জাহােনর েছাট বড় পেতযকিট বসর ওপর কতৃরত কেরেছন৷ পিরচালনা
ও শাসন কৃতৃরেতর যাবতীয় কমতা কাযরত তঁারই হােত িনবদ৷ পিতিট বস তঁার িনেদরেশর অনুগত৷ কুদ কুদ বালুকণাও তঁার িনেদরশ েমেন চেল৷ পিতিট বন ও পানীর ভাগযই
িচরনরভােব তঁার িনেদরেশর সােথ যুক৷ েয েমৌিলক িবভািনিটর কারেণ মানুষ কখেনা িশরেকর েগামরাহীেত িলপ হেয়েছ, আবার কখেনা িনেজেক সাধীন কমতা সমন
েঘাষণা করার মেতা ভান পদেকপ গহণ কেরেছ কুরআন এভােব তার মূেলাৎপাটন করেত চায়৷িবশ-জাহােনর পিরচালনা ও বযবসাপনা েথেক আলাহেক কাযরত সমকরহীন
মেন করার অিনবাযর ফল দঁাড়ায় দিট৷ মানুষ িনেজর ভাগয েক অেনযর হােত বিন মেন করেব এবং তার সামেন মাথা নত কের েদেব অথবা িনেজেকই িনেজর ভােগযর িনয়না
মেন করেব এবং িনেজেক সবরময় কতৃরতশীল সাধীন সতা মেন কের কাজ কের েযেত থাকেব৷
এখােন আেরা একিট কথা পিণধানেযাগয৷ সষা ও সৃিষর মধযকার সমকর সুষষ করার জেনয কুরআন মজীেদ মানুেষর ভাষা েথেক েবশীর ভাগ েকেত এমন সব শব
পিরভাষা , উপমা ও বণরনাভংগী গহণ করা হেয়েছ, যা রাজত ও বাদশাহীর সােথ সমকর রােখ৷এ বণরনাভংগী কুরআেন এত েবশী সষ েয, অথর বুেঝ কুরআন পাঠকারী েয
েকান বযিকই এ িবষয়িট অনুভব না কের থাকেত পারেবন না৷ েকান েকান অবরাচীন সমােলাচক সীয় িবকৃত িচনা ও মানিসকতার কারেণ এ বাচনভংগী েথেক বুেঝেছন েয,
এ িকতাবিট েয যুেগর রচনা েস যুেগ মানুেষর মন-মিসেষ রাজতািনক বযবসার পভাব বযাপকভােব িবসৃত িছল৷ তাই এ িকতােবর রচিয়তা (এ িবেবকহীন িননুকেদর মত এর
রচিয়তা নািক হযরত মুহামাদ সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম) আলাহেক একজন রাজা ও বাদশাহ িহেসেবই েপশ কেরেছন৷ অথচ কুরআন েয শাশত ও অনািদ -অনন
সতয উপসাপন করেছ তা এর সমূণর িবপরীত৷ েস সতযিট হেচ, ভুমণেল ও নেভামণেল একমাত আলাহর রাজত পিতিষত ৷ সাবরেভৌমত( Sovereignty)বলেত যা বুঝায়
তা একমাত তারই সতার একেচিটয়া অিধকার ও ৈবিশষয৷ আর িবশ -জাহােনর এ বযবসাপনা একিট পূনরাঙ েকনীয় বযবসা িবেশষ, েযখােন ঐ একক সতা, সমস কমতা ও
কতৃরেতর পূণর অিধকারী৷ কােজই এ বযবসার মেধয েয বযিক বা দল িনেজর বা অনয কারর আংিশক বা পূণর কতৃরেতর দাবীদার হয়, েস িনেজেক িনছক পতারণার জােল আবদ
কের েরেখেছ৷ তাছাড়া এ বযবসার মেধয অবসান কের মানুষ পেক ঐ একক সতােক একই সােথ ধমরীয় অেথরও একমাত মাবুদ এবং রাজৈনিতক ও সামািজক -সাংসৃিতক
অেথরও একমাত শাসক (Sovereign)িহেসেব েমেন েনয়া ছাড়া িদতীয় েকান সিঠক দৃিষভংগী ও কমরনীিত হেত পাের না৷
৪২. "আরেশর উপর সমাসীন হেলন" বযাকিটর মাধযেম সংেকেপ েয িবষয়িট বিণরত হেয়িছল এখােন তারই অিতিরক বযাখযা করা হেয়েছ৷ অথরাৎ িনছক সষাই নন, িতিন
হকুমকতরা এবং শাসকও ৷ িতিন সৃিষ করার পর িনেজর সৃষ বসসমূহেক অেনযর কতৃরেত েসাপদর কের েদনিন অথবা সমগ সৃিষেক বা তার অংশ িবেশষেক ইচামত চলার
জেনয সাধীবভােব েছেড় েদনিন৷ বরং কাযরত সমগ িবশ জগেতর পিরচালনা বযবসা আলাহর িনেজর হােতই েকনীভূত রেয়েছ৷ িদন রািতর আবতরন আপনা আপিনই হেচ না৷
বরং আলাহর হকুেম হেচ ৷ িতিন যখনই চাইেবন িদন ও রাতেক থািমেয় েদেবন আর যখনই চাইেবন এ বযবসা বদেল েদেবন৷ সূযর, চন , তারকা এরা েকউ িনজস েকান
শিকর অিধকারী নয়৷ বরং এরা সবাই সমূণররেপ আলাহর কতৃরতাধীন৷ এরা একান অনুগত দােসর মত েসই কাজই কের যােচ েয কােজ আলাহ এেদরেক িনযুক কেরেছন৷
৪৩. বরকেতর আসল অথর হেচ বৃিদ, উনিত, িবকাশ ৷ এই সংেগ এ শবিটর মেধয একিদেক উচতা ও মহেতর ভাবধারা িনিহত রেয়েছ এবং অনযিদেক রেয়েছ সীিতশীলতা
ও অিবচলতার ভাবধারাও৷ আবার মংগল ও কলযােণর ভাবধারাও িনিশতভােব এসব অেথরর অনরভুক রেয়েছ৷ কােজই আলাহ বড়ই বরকেতর অিধকারী হবার অথর এ দঁাড়ায়
েয, তঁার মংগল ও কলযােণর েকান সীমা েনই৷ তঁার সতা েথেক সীমাহীন কলযাণ চতুিদরেক িবসৃত হেচ এবং িতিন অিত উনত ও েশষ এক সতা৷ তঁার মহেতর েকান েশষ

েনই৷ আর তঁার এ কলযাণ ,মহত ও েশষত িচরসায়ী , ও অননকালীন -সামিয়ক নয় ৷ এর কয়ও েনই৷ পতনও েনই৷ (আল -ফুরকান, টীকা ১-১৯দষবয)৷

﴾7:55﴿

َ ‫ب اْلُمْعَتِدي‬
‫ن‬
ّ ‫ح‬
ِ ‫ل ُي‬
َ ‫خْفَيًة ِإّنُه‬
ُ ‫عا َو‬
ً ‫ضّر‬
َ ‫عوا َرّبُكْم َت‬
ُ ‫اْد‬

(7:55) Call upon your Lord with humility and in secret. Surely He does not love
transgressors.
(৭:৫৫) েতামােদর রবেক ডােকা কানাজিড়ত কেণ ও চুেপ চুেপ ৷ অবিশয িতিন সীমালংঘনকারীেদরেক পছন কেরন না৷

ّ ‫طَمًعككا ِإ‬
‫ن‬
َ ‫خْوًفككا َو‬
َ ‫عككوُه‬
ُ ‫حَها َواْد‬
ِ‫ل‬
َ ‫صك‬
ْ ‫ض َبْعكَد ِإ‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫سُدوا ِفككي ا‬
ِ ‫ل ُتْف‬
َ ‫َو‬
﴾7:56﴿ ‫ن‬
َ ‫سِني‬
ِ‫ح‬
ْ ‫ن اْلُم‬
َ ‫ب ِم‬
ٌ ‫ل َقِري‬
ِّ ‫حمََة ا‬
ْ ‫َر‬
(7:56) And do not make mischief in the earth after it has been set in order, *44 and call
upon Him with fear and longing. *45 Surely Allah's mercy is close to those who do good.
*44. The command not to make mischief in the earth means not to vitiate the right order of life.
What basically, constitutes 'mischief-making' is to surrender oneself to one's lusts, to commit
acts in subservience to other human beings and to subscribe to base morals, social orders,
civilizations, principles and laws derived from sources other than God's Guidance. This is the
essential mischief from which innumerable evils issue and which the Qur'an seeks to eradicate.
The Qur'an also emphasizes that sound order is the original condition, and disorder and
mischief occurred later as accidents resulting from man's ignorance and transgression. In other
words, man's life on earth did not start with ignorance, savagery, polytheistic beliefs, rebellion
against God and moral disorder whereafter reforms were gradually introduced. On the contrary,
man's life began with good order and was later corrupted because of man's perversity and folly.
God sent Prophets from time to time in order to eradicate the disorder that had set in and to
restore the original, good order. These Prophets constantly ehorted people to refrain from
disrupting the original order and creating mischief.
Thus the Qur'anic view on this question is altogether different from that of the proponents of
the false doctrine of evolution, who postulate that man has gradually come out of darkness into
light; that life has advanced in a unilinear fashion, towards increasinly better conditions. The
Qur'an rather postulates that human life began in the full light of Divine Guidance, that the
original state of affairs was in accord with the Right Way prescribed by God. The blame for
corruption goes to man who, failing victim to Satan's allurements, veered towards darkness and
corrupted the right order of human life again and again. As for God, He continually sent
Prophets in order to summon men from darkness to light, and to ask them to eschew evil and
wickedness. (See Towards Understanding the Qur'an, al-Baqarah 2, n. 230, pp. 165-6 - Ed.)
*45. This clearly shows what the expression 'mischief-making' in the verse signifies. It consists

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

of man's turning to others than God as his guardian, patron and helper, and calling them to his
aid and support. To bring about reform, therefore, consists of man's turning exclusively to God
as his guardian and helper.
'Calling upon Allah with fear and longing' conveys the idea that man should fear God alone,
and to Him alone he should look for the fulfilment of his wishes. While calling upon God man
should realize that he is totally dependent on God's favour and that he can attain success only if
God helps and guides him to it. Similarly, man should also bear in mind that once he is
deprived of God's support, he is doomed to utter failure and undoing.
(৭:৫৬) দিনয়ায় সুস পিরেবশ বহাল করার পর আর েসখােন িবপযরয় সৃিষ কেরা না৷ ৪৪ আলাহেকই ডােকা ভীিত ও আশা সহকাের৷ ৪৫ িনিশতভােবই
আলাহর রহমত সৎকমরশীল েলাকেদর িনকবতরী৷
৪৪. "পৃিথবীেত িবপযরয় সৃিষ কেরা না৷" -অথরাৎ পৃিথবীর পিরচালনা বযবসােক িবিঘত ও িবনষ কেরা না৷ মানুষ যখন আলাহর বেনগী না কের িনেজর বা অনয কােরার
তােবদারী কের এবং আলাহর পথিনেদরশনা গহণ না কের িনেজর সমাজ, সংসৃিত ও েনিতকতােক এমনসব মূলনীিত ও আইেনর িভিতেত পিতিষত কের যা আলাহেক বাদ
িদেয় অনয কােরার পথিনেদরশনা েথেক গৃহীত , তখন এমন একিট েমৌিলক ও সািবরক িবপযরয় সৃিষ হয়, যা পৃিথবীর পিরচালন বযবসােক নানাভােব কিতগস কের৷ এই
িবপযরেয়র পথেরাধ করাই কুরআেনর উেদশয ৷ এইসংেগ কুরআন এ সতযিট সমেকরও সজাগ করেত চায় েয, িবপযরয়, পৃিথবীর বযবসাপনায় েমৌল িবষয় নয় এবং সুসতা, তার
সােথ সামিয়কভােব সংযুক হয়িন৷ বরং সুসতা, হেচ এ বযবসাপনার েমৌল িবষয় এবং িনছক মানুেষর মূখরতা অজতা , ও িবেদাহাতক কাযরকলােপর ফেল িবপযরয় তার ওপর
সামািয়কভােব আপিতত হয়৷ অনয কথায় বলা যায়, এখােন মূখরতা , অজাতা, অসভযতা, িশরক িবেদাহ ও ৈনিতক িবশৃংখলার মধয িদেয় মানুেষর জীবেনর সুচনা হয়িন, এবং
এগেলা দর করার জেনয পরবতরীকােল কমাগত সংেশাধন সংসার ও সুসতা, িবধােনর কাজ চেলিন৷ বরং পকৃতপেক মানব জীবেনর সুচনা হেয়েছ সুস ও সুসভয বযবসাপনার
মধয িদেয় এবং পরবতরীকােল দসমরশীল েলােকরা িনেজেদর িনবুির দতা ও দষ মেনাবৃিতর সাহােযয এ সুস বযবসাপনািটেক কমানেয় িবনষ ও িবপযরস কেরেছ৷িবপযরয় িনমূরল
কের জীবন বযবসােক আবার নতুন কের সংেশািধত ও সুস কের েতালার জেনযই মহান আলাহ যুেগ যুেগ ধারাবািহকভােব নবী পািঠেয়েছন৷তঁারা পেতযক যুেগ মানুষেক এ
একই দাওয়াত িদেয় এেসেছন েয, েয সুস ও সভয িবধােনর িভিতেত দিনয়ার বযবসা পিতিষত করা হেয়িছল তার মেধয িবপযরয় সৃিষ করা েথেক িবরত থােকা৷
সভযতার িববতরন সমেকর সমূণর ভান ধারণা েপাষণ কের একিট মহল েয উদট মতাদশর েপশ কেরেছন, কুরআেনর দৃিষভংগী তােদর েথেক সমূণর আলাদা৷ তঁারা বলেছন,
মানুষ অনকার েথেক েবর হেয় ধীের ধীের ও পযরায়কেম আেলার মেধয এেসেছ৷ িবকৃিত, অসভযতার ও ববররতা েথেক তার জীবেনর সুচনা হেয়েছ৷ তারপর পযরায়কেম তা
সুসতা ও সভযতার িদেক এেসেছ৷ িবপরীতপেক কুরআন বলেছ আলাহ মানুষেক পূনর আেলােকর মেধয এ পৃিথবীেত পািঠেয়েছন৷ পূণর আেলােকাজল পিরেবেশ একিট সুস
জীবন বযবসার আওতাধীেন তার জীবন পেথ চলা শর হেয়িছল৷ তারপর মানুষ িনেজই শয়তােনর েনতৃত গহণ কের বারবার অনকােরর মেধয পেবশ কেরেছ৷ এবং এ সুস
জীবন বযবসায় িবপযরয় েডেক এেনেছ৷ অনযিদেক আলাহ বারবার িনেজর নবী ও রাসূলগণেক পািঠেয়েছন ৷ তঁারা মানুষেক অনকার েথেক আেলার িদেক আসার এবং িবপযরয়
সৃিষ েথেক িবরত থাকার জেনয আহবান জািনেয়েছন৷ (েদখুন সূরা বাকারা২৩০ টীকা)৷
৪৫. এ বাকযিট েথেক একথা সুষষ হেয় েগেছ েয, ওপেরর বােকয যােক িবপযরয় বলা হেয়িছল তা হেচ আসেল মানুেষর আলাহর পিরবেতর অনয কাউেক িনেজর অিভভাবক
বনু ও কাযর সমাদনকারী গণয কের সাহােযযর জেনয তােক ডাকা৷ অনযিদেক মানুেষর এ ডাক একমাত আলাহর সতােক েকন কের উচািরত হওয়ার নামই সুসতা , ও
িবশদতা৷
ভীিত ও আশা সহকাের ডাকার অথর হেচ, েতামােদর ভয় করেত হেল একমাত আলাহেকই করেত হেব৷ এবং েকান আশা েপাষন করেত হেল তাও করেত হেব একমাত
আলাহরই কাছ েথেক৷ এ অনুভূিত সহাকাের আলাহেক ডাকেত হেব েয, েতামােদর ভাগয পুেরাপুির তঁারই করনা িনভরর৷ েসৌভাগয ,সাফলয ও মুিকলাভ একমাত তঁারই
সাহাযয ও পথিনেদরশনায় সমব৷ অনযথায় তঁার সাহাযয েথেক বিঞত হেল েতামােদর জনয বযথরতা ও ধংস অিনবাযর৷

ْ‫حّتككى ِإَذا َأَقّلكت‬
َ ‫حَمِتكِه‬
ْ ‫ي َر‬
ْ ‫ن َيكَد‬
َ ‫شكًرا َبْيك‬
ْ ‫ح ُب‬
َ ‫ل الّرَيككا‬
ُ ‫سك‬
ِ ‫َوُهوَ اّلِذي ُيْر‬
ّ ‫ن ُكك‬
‫ل‬
ْ ‫جَنككا ِبكِه ِمك‬
ْ ‫خَر‬
ْ ‫ت َفَأْنَزْلَنا ِبكِه اْلَمككاَء َفَأ‬
ٍ ‫سْقَناُه ِلَبَلٍد َمّي‬
ُ ‫ل‬
ً ‫حاًبا ِثَقا‬
َ‫س‬
َ
﴾7:57﴿ ‫ن‬
َ ‫ج اْلَمْوَتى َلَعّلُكْم َتَذّكُرو‬
ُ ‫خِر‬
ْ ‫ك ُن‬
َ ‫ت َكَذِل‬
ِ ‫الّثَمَرا‬
(7:57) And it is He Who sends forth winds as glad tidings in advance of His Mercy, and
when they have carried a heavy-laden cloud We drive it to a dead land, then We send
down rain from it and bring forth therwith fruits of every kind. In this manner do We

raise the dead that you may take heed.
(৭:৫৭) আর আলাহই বায়ুেক িনেজর অনুগেহর পূবরােহ সুসংবদবাহীরেপ পাঠান ৷ তারপর যখন েস পািন ভরা েমঘ বহন কের তখন েকান মৃত ভুখেণর
িদেক তােক চািলেয় েদন এবং েসখােন বাির বষরণ কের(েসই মৃত ভুখণ েথেক ) নানা পকার ফল উৎপাদন কেরন৷ েদেখা, এভােব আিম মৃতেদরেক
মৃতুযর অবসা েথেক েবর কের আিন৷ হয়েতা এ চাকুষ পযরেবকণ েথেক েতামরা িশকা লাভ করেব৷

‫ل َنِككًدا‬
ّ ‫ج ِإ‬
ُ ‫خكُر‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫ث‬
َ ‫خُب‬
َ ‫ن َرّبِه َوالِّذي‬
ِ ‫ج َنَباُتُه ِبِإْذ‬
ُ ‫خُر‬
ْ ‫ب َي‬
ُ ‫طّي‬
ّ ‫َواْلَبَلُد ال‬
﴾7:58﴿ ‫ن‬
َ ‫شُكُرو‬
ْ ‫ت ِلَقْوٍم َي‬
ِ ‫لَيا‬
َْ ‫ف ا‬
ُ ‫صّر‬
َ ‫ك ُن‬
َ ‫َكَذِل‬
(7:58) As for the good land, vegetation comes forth in abundance by the command of its
Lord, whereas from the bad land, only poor vegetation comes forth. *46 Thus do We
expound Our signs in diverse ways for a people who are grateful.
*46. It is necessary to grasp the subtle point made here in order to appreciate the full purport of
what is being said. The reference to rain and its advantages is intended to bring into focus God's
power, and to affirm life after death. Moreover, it is also intended to draw attention in
allegorical, albeit graphic, terms to the blessings of prophethood, and how it helps men to
distinguish between good and evil, between pure and impure. The intimation of Divine
Guidance through the Prophets is compared to the movement of winds, the appearance of rainladen clouds, and the fall of life-sustaining raindrops. In the same way as rainfall causes dead
earth to be revived and makes the hidden treasures of life burst forth from its womb, so the
impact of the teachings of the Prophets also brings dead humanity back to life, causing the
hidden goodness in men to burst forth.
This allegory also hints at another important fact. In the same way that only fertile soil profits
from rainfall, so only men of a righteous nature can profit from the blessings of prophethood.
As for the wicked, they are like wasteland. Rainfall can cause such a land to bring forth only
thorny bushes and cacti. Similarly, when the wicked come into contact with the teaching of the
Prophets, the hidden evils of their nature come into full play.
This allegory is followed by a well-sustained account with illustrations from history showing
that whenever the Prophets preach their Message, men Split into two camps. The righteous
receive the blessings of prophethood and flourish, bringing forth the fruit of their goodness. As
for the wicked, once the criterion provided by the Prophets is applied their impurities are fully
exposed. This enables human society to purge itself of impurities in the same way as the
goldsmith purges precious metals of alloy.
(৭:৫৮) উৎকৃষ ভুিম িনেজর রেবর িনেদরশ পচুর ফসল উৎপন কের এবং িনকৃষ ভুিম েথেক িনকৃষ ধরেনর ফসল ছাড়া আর িকছুই ফেল না৷
এভােবই আিম কৃতজ জনেগািষর জনয বারবার িনদশরনসমূহ েপশ কের থািক৷

৪৬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
৪৬. এখােন একিট সূক িবষেয়র ওপর আেলাকপাত করা হেয়েছ৷ মূল বকবয িবষয়িট অনুধাবন করার জেনয এ সমেকর অবিহত হওয়া অপিরহাযর৷ এখােন বৃিষ ও তার
বরকেতর উেলখ করার উেদশয শধু আলাহর অসীম কমতা বণরনা ও মৃতুযর পরবতরী জীবেনর পমাণ তুেল ধরাই নয়, বরং েসই সােথ একিট উপমার সাহােযয িরসালাত ও তার
বরকতসমূহ এবং তার মাধযেম ভাল ও মেনর মেধয এবং উৎকৃষ ও িনকৃেষর মধয পাথরেকযর িচত অংকন করাও এর লকয৷ রসূেলর আগমন এবং আলাহর িশকা ও
পথিনেদরশনা নািযল হওয়ােক জলকনা বহনকারী বায়ূ পবাহ ও রহমেতর েমঘকমালায় আছন হেয় যাওয়া এবংঅমৃতধারাপূণর বািরিবনু বষরেনর সােথ তুলনা করা হেয়েছ৷
আবার বৃিষপােতর মাধযেম মৃত পিতত ভূিমর অকসাত সঞীিবত হওয়া এবং তার উদর েথেক জীবেনর অেঢল সমদরািজ উৎসািরত হবার ঘটনােক নবীর িশকা, অনুশীলন ও
েনতৃেতর মৃত ভূপিতত মানবতার অকসাত েজেগ ওঠার এবং তার বকেদেশ েথেক কলযােণর েসাতিসনী উৎসািরত হবার পিরিসিতর সােথ সাদৃশযপূণর িহেসেব েপশ করা
হেয়েছ৷ তারপর বলা হেয়েছ, বৃিষ বষরেনর ফেল এসব বরকত েকবলমাত এমনসব ভূিম লাভ কের, যা মূলত উবরর িকন িনছক পািনর অভােব যার শষয ও উৎপাদেনর
েযাগযতা চাপা পেড়িছল৷ িঠক েতমিন িরসালােতর এ কলযাণধারা েথেকও েকবলমাত েসই সব েলাক লাভবান হেত পাের যারা মূলত মৃৎবৃিতর অিধকারী এবং েকবলমাত
েনতৃত ও পথিনেদরশনা না পাওয়ার কারেণ যােদর েযাগযতা ও সুস মেনাবৃিতর সুসষ রপলাভ করার ও কমরতৎপরতা হবার সুেযাগ পায় না৷অনযিদেক দষ মেনাবৃিতর
অিধকারী ও দষমরশীল মানুেষরা হেচ এমন ধরেনর অনুবরর জিমর মত, যা রহমেতর বাির বষরেণ েকানকেমই লাভবান হয় না বরং বৃিষর পািন পড়ার সােথ সােথই যার
েপেটর সমস িবষ কঁাটা গাছ ও েঝাপ ঝােড়র আকাের েবর হেয় আেস ৷ অনুরভােব িরসালােতর আিবভরােব তােদর েকান ফায়দা হয় না ৷বরং উলেটা তােদর অভযনেরর সমস
দষৃিত ও শয়তানী মেনাবৃিত পূেণরাদযেম সিকয় হেয় ওেঠ ৷
পরবতরী কেয়কিট রকূেত ধারাবািহকভােব ঐিতহািসক পমাণ সহকাের এ উপমািটেক সুষষ কের তুেল ধরা হেয়েছ৷ েসখােন বলা হেয়েছ পেতযক যুেগ নবীর আগমেনর পর
মানব জািত দভােগ িবভক হেয় যায়৷ একিট ভাগ হেচ সুস ও সৎ েচতনা সমন েলাকেদর৷ িরসালােতর অিময় ধারায় অবগাহন কের তারা পুিরপুষ হয় এবং উনিত ও উতম
ফেল ফুেল শেশািভত হয়৷ আর িদতীয় ভাগিট হেচ দষ েচতনা সমন জনেগািষর ৷ কিষপাথেরর সামেন আসার সােথ সােথই তারা িনেজর সমস অসৎ পবণতা ডািল উনুক
কের েদয়৷ তােদর সমস দৃষৃিত সুসষ হেয় ওেঠ৷ অবেশেষ তােদরেক িঠক েতমিনভােব েছেট দূের িনেকপ করা হয় েযভােব সণরকার রপা ও েসানা েভজাল অংশটুকু েছেট
দের িনেকপ কের৷

‫ن ِإَلكٍه‬
ْ ‫لك َمككا َلُككْم ِمك‬
َّ ‫عُبكُدوا ا‬
ْ ‫ل َيا َقْوِم ا‬
َ ‫حا ِإَلى َقْوِمِه َفَقا‬
ً ‫سْلَنا ُنو‬
َ ‫َلَقْد أَْر‬
﴾7:59﴿ ‫م‬
ٍ ‫ظي‬
ِ‫ع‬
َ ‫ب َيْوٍم‬
َ ‫عَذا‬
َ ‫عَلْيُكْم‬
َ ‫ف‬
ُ ‫خا‬
َ ‫غْيُرُه ِإّني َأ‬
َ
(7:59) Indeed We sent forth Noah to his people *47and he said: '0 my people! Serve
Allah, you have no other god than Him *48Indeed I fear for you the chastisement of an
awesome Day.'
*47. This historical narrative opens with an account of the Prophet Noah and his people. For the
people of Noah were the first to drift away from the right way of life which was followed by
the Prophet Adarn and his descendants. God, therefore, sent Noah to guide and reform them.
In light of the Qur'anic allusions and Biblical statements it seems certain the people of Noah
inhabited the land presently known as Iraq. This view is also supported by inscriptions of preBiblical times discovered in the course of archaeological excavations in Babylonia. Those
inscriptions contain almost the same account which is recounted in the Qur'an and the Torah.
The locale of the event is the vicinity of Mosul. Kurdish and Armenian traditions also
corroborate this account insofar as they mention that it was in this area that Noah's Ark
anchored. Some relies ascribed to Noah are still found in Jazirat Ibn 'Urnar, situated to the north
of Mosul and on the frontiers of Armenia in the vicinity of the Ararat mountain mass. The
inhabitants of Nakhichevan believe to this day that their town was founded by Noah.
Traditions similar to the story of Noah are also found in classical Greek Egyptian, Indian and
Chinese literature. Moreover, stories of identical import have been popular since time
immemorial in Burma, Malaya, the East Indies, Australia, New Guinea and various parts of
Europe and America. This shows clearly that the event took place at some point in the dim past
when men lived together in one region and it was after Noah's Flood that they dispersed to

different parts of the world. This is why traditions of all nations mention the Flood of the early
time. This is notwithstanding the fact that the actual event has increasingly been shrouded in
mystery, and the authentic elements of the event overlaid with myth and legend.
*48. It is evident from the above verse and from other Qur'anic descriptions of the people of
Noah that they were neither ignorant of, nor denied the existence of God, nor were they
opposed to the idea of worshipping Him. Their real malady was polytheism. They had
associated others with God in His godhead, and considered them akin to God in their claim that
human beings should worship them as well. This basic error gave rise to a number of evils
among them. There had arisen among them a class of people representing the false gods they
themselves had contrived. Gradually this class of people virtually monopolized all religious,
economic and political authority. This class also introduced a hierarchical structure of society
which led to immense corruption and injustice. The moral degeneration which this system
promoted sapped the roots of mankind's higher characteristics. When corruption reached a high
peak, God sent Noah to improve the state of affairs. For long, Noah strove with patience and
wisdom to bring about reform. All his efforts, however, were thwarted by the clergy which
craftily kept people under its powerful hold. Eventually Noah prayed to God not to spare even a
single unbeliever on the face of the earth, for they would go about misguiding human beings,
and their progeny would likewise be wicked and ungrateful. (For a detailed discussion see Hud
11: 25-48, al-Shu'ara' 26: 105-22 and Nuh 71: 1-28.)
(৭:৫৯) নুহেক আিম তার সমদােয়র কােছ পাঠাই৷ ৪৭ েস বেলঃ েহ আমার সেগাতীয় ভাইেয়রা! আলাহর ইবাদত কেরা, িতিন ছাড়া েতামােদর আর
েকান ইলাহ েনই৷ ৪৮ আিম েতামােদর জনয একিট ভয়াবহ িদেনর আযােবর আশংকা করিছ৷
৪৭. হযরত নূহ আলাইিহস সালাম ও তার সমদায় েথেক এ ঐিতহািসক িববরেণর সূচনা করা হেযেছ৷ কারণ কুরআেনর দৃিষেত হযরত আদম আলাইিহস সালাম তঁার
সনানেদর েয সৎ ও সুস জীবেন পিতিষত কের যান, তােত পথম িবকৃিত েদখা েদয় হযরত নূেহর যুেগ এবং এির সংেশাধন ও এ জীবেন বযবসােক আবার সুস অবসায়
িফিরেয় আনার জেনয মহান আলাহ হযরত নূহেক পাঠান৷
কুরআেনর ইংিগত ও বাইেবেলর সুষষ বণরনার পর একথা আজ িনিশতভােব িচিহত হেয় েগেছ েয, বতরমান ইরােকই হযরত নূেহর সমাদােয়র বসবাস িছল৷ েবিবলেনর
পাচীন ধংসাবেশেস অভযনের বাইেবেলর চাইেতও েয পাচীন িলিপ পাওয়া েগেছ , তা েথেকও এর সতযতার পমাণ পাওয়া যায়৷ কুরআেন ও তাওরােত েয ঘটনা বিনরত
হেয়েছ ঐ পাচীন িলিপেতও তদপ এক কািহনীর উেলখ পাওয়া যায়৷ ঘটনািট মুেসল এর আেশপােশ ঘেটিছল বেল েসখােন উেলখ করা হেয়েছ৷ আবার কুিদরসান ও
আরেমিনয়া এলাকায় পাচীনকাল েথেক বংশ পরমরায় েযসব িকংবদনী চেল আসেছ তা েথেকও জানা যায় েয, পাবেনর পর হযরত নূেহর েনৌকা এ এলাকার েকান এক
সােন েথেমিছল৷ আেজা মুেসেলর উতের ইবেন উমর দীেপর আেশপােশ এবং আরেমিনয়া সীমােন "আরারাত" পাহােড়র আেশপােশ নূহ আলাইিহস সালােমর িবিভন িনদশরন
িচিহত করা হেয় থােক৷ 'নখচীওয়ান' শহেরর অিধবাসীেদর মেধয আেজা এ পবাদ পচিলত েয, হযরত নুহ এ শহেরর িভিত সাপন কেরিছেলন৷
নূেহর পাবেনর মত পায় একই ধরেনর ঘটনার কথা গীক, িমসর, ভারত ও চীেনর পাচীন সািহেতযও পাওয়া যায়৷এছাড়াও বামরা, মালেয়িশয়া, পূবর ভারতীয় দীপপুঞ,
অেষিলয়া , িনউিগিন এবং আেমিরকা ও ইউেরােপর িবিভন এলাকায় ও এ একই ধরেনর িকংবদনী পাচীনকাল েথেক চেল আসেছ৷ এ েথেক পিরষার বুঝা যােচ েয , এ
ঘটনািট এমন এক সমেয়র সােথ সমিকরত যখন সমগ মানব জািতর দিনয়ার একই এলাকায় অবসান করেতা, তারপর েসখান েথেক তােদর বংশধেররা দিনয়ার চতুরিদেক
ছিড়েয় পেড়৷ তাই সকল জািত তােদর উেনষকালীন ইিতহােস একিট সবরবযাপী পাবেনর ঘটনা িনেদরশ কেরেছ৷ অবশয কােলর আবতরেনর এর যথাথর িবসািরত তথযািদ তারা
িবসৃত হেয় েগেছ এবং পেতযেক িনেজর িচনা-ভাবনা অনুযায়ী আসল ঘটনার গােয় পেলপ লািগেয় এক একটা িবরাট কলকািহনী ৈতরী কের িনেয়েছ৷
৪৮. কুরআন মজীেদর এ সােন ও অনযানয সােন হযরত নূহ ও তঁার সমদােয়র েয অবসা বণরনা করা হেয়েছ তা েথেক একথা সুষষভােব পতীয়মান হয় েয, এ সমদায়িট
আলাহর অিসত অসীকার করেতা না ,তঁার সমেকর িনেরট অজও িছল এবং তঁার ইবাদত করেতও তারা অসীকার করেতা না৷ বরং তারা পকৃতপেক েয েগামরাহীেত িলপ
িছল েসই িছল িশরক৷ অথরাৎ তারা আলাহর সাবরেভৌম কতৃরেত অনযানয সতােকও শরীক করেতা এবং ইবাদােতর লােভর অিধকাের তােদরেক তঁার সােথ িহসসাদার মেন
করেতা৷ তারপর এ েমৌিলক েগামরাহী েথেক এ জািতর মেধয অসংখয তিট ও দষৃিতর জন েনয়৷ েযসব মনগড়া মাবুদেক আলাহর সাবরেভৌম কতৃরেতর অংশীদার গণয করা
হেয়িছল,তােদর পিতিনিধত করার জেনয জািতর মেধয একিট িবেশষ েশনীর জন হয়৷ এ েশনীিট সমস ধমরীয় রাজৈনিতক ও অথরৈনিতক কতৃরেতর একচত মািলক হেয় বেস৷
জািতেক তারা উচ েশনী ও িনম শনীেত িবভক কের৷ সমাজ জীবন জুলুম ও িবপযরেয় ভরপুর কের েতােল৷ ৈনিতক উচৃংখলতা, চািরিতক ৈনরাজয ও পাপাচােরর মাধযেম
মানবতার মূেল কুঠারাঘাত কের৷ এ অবসার পিরবতরন করার জেনয হযরত নূহ আলাইিহস সালাম অতযন সবর, সিহষুতা ও বুিদমতার সােথ দীঘরকাল পেচষা ও সংগাম
চালান৷ িকন সাধারণ মানুষেক তারা িনেজেদর পতারনা জােল এমনভােব আবদ কের েনয় যার ফেল সংেশাধেনর েকৌশল কাযরকর পমািণত হয়িন৷ অবেশেষ হযরত নূহ (আ)

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
আলাহর কােছ এ মেমর েদায়া কেরন! েহ আলাহ! এ কােফরেদর একজনেকও পৃিথবীর বুেক জীিবত েছেড় িদেয়া না৷ কারণ এেদর কাউেক জীিবত েছেড় িদেল এরা েতামার
বানােদরেক েগামরাহ করেত থাকেব এবং এেদর বংেশ যােদরই জন হেব তারাই হেব অসৎকমরশীল, দশিরত ও িবশাসঘাতক৷ (িবসািরত জানার জেনয েদখুন সুরা হদ ৩রকূ
, সূরা শূআরা ৬রকূ ও সমগ সূরা নূহ)৷

﴾7:60﴿

ٍ ‫للٍ ُمِبي‬
‫ن‬
َ‫ض‬
َ ‫ك ِفي‬
َ ‫ن َقْوِمِه ِإّنا َلَنَرا‬
ْ ‫ل ِم‬
َُ ‫ل اْلَم‬
َ ‫َقا‬

(7:60) The leading men of his people replied: 'We see that you are in palpable error.'
(৭:৬০) তার সমদােয়র পধানরা জবাব েদয়ঃ আমরা েতা েদখেত পািচ তুিম সুষষ েগামরাহীেত িলপ হেয়েছা৷

﴾7:61﴿

َ ‫ب اْلَعاَلِمي‬
‫ن‬
ّ ‫ن َر‬
ْ ‫ل ِم‬
ٌ ‫سو‬
ُ ‫لَلٌة َوَلِكّني َر‬
َ‫ض‬
َ ‫س ِبي‬
َ ‫ل َيا َقْوِم َلْي‬
َ ‫َقا‬

(7:61) He said: '0 my people! There is no error in me, but I am a Messenger from the
Lord of the universe.
(৭:৬১) নূহ বেলঃ েহ আমার সমদােয়র ভাইেয়রা!আিম েকান েগামরাহীেত িলপ হইিন বরং আিম রবুল আলামীেনর রসূল৷

﴾7:62﴿

َ ‫ل َتْعَلُمو‬
‫ن‬
َ ‫ل َما‬
ِّ ‫ن ا‬
َ ‫علَُم ِم‬
ْ ‫ح َلُكْم َوَأ‬
ُ‫ص‬
َ ‫ت َرّبي َوَأْن‬
ِ ‫ل‬
َ ‫سا‬
َ ‫ُأَبّلُغكُْم ِر‬

(7:62) I convey to you the messages of my Lord, give you sincere advice, and I know
from Allah that which you do not know.
(৭:৬২) েতামােদর কােছ আমার রেবর বানী েপঁৌেছ িদিচ৷ আিম েতামােদর কলযাণকামী৷ আলাহর পক েথেক আিম এমন সব িকছু জািন যা েতামার
জান না৷

‫ل ِمْنُكْم ِلُيْنِذرَُكْم َوِلَتّتُقككوا‬
ٍ‫ج‬
ُ ‫عَلى َر‬
َ ‫ن َرّبُكْم‬
ْ ‫جاَءُكْم ِذْكٌر ِم‬
َ ‫ن‬
ْ ‫جْبُتْم َأ‬
ِ َ‫َأَوع‬
﴾7:63﴿ ‫ن‬
َ ‫حُمو‬
َ ‫َوَلَعّلُكْم ُتْر‬
(7:63) Do you wonder that admonition should come to you from your Lord through a
man from amongst yourselves that he may warn you, that you may avoid evil and that
mercy may be shown to you?' *49
*49. There were striking similarities between Muhammad and Noah (peace be on them). The
Prophet Muhammad (peace be on him) received the same treatment from his people as did
Noah from his. The message that each of them sought to preach was also the same. Likewise,
the doubts and objections raised by the people of Muhammad (peace be on him) with regard to
his prophethood were the same as those raised by Noah's people several thousand years ago.
Again, what Muhammad (peace be on him) said in response to the doubts and objections raised
against him were exactly the same as what Noah had said.

The Qur'anic narration of the stories of the Prophets makes it amply clear that the attitude of the
nations to whom the Prophets were sent had always been the same as that of the Makkans
towards the Message of Muhammad (peace be on him). Apart from this, the accounts of the
various Prophets and their people, display the same striking resemblances. Likewise, the
Prophet Muhammad's (peace be on him) vindication of his teaching in response to the Makkans
is identical with similar attempts by other Prophets to vindicate their teachings. So doing, the
Qur'an seeks to emphasize that in the same way as the error and misguidance of which men
become victims have remained essentially the same throughout the ages, the Message of God's
Messengers has also been the same in all places and at all times. Again, there is a striking
resemblance in the ultimate fate of all those peoples who reject the message of the Prophets and
who persist in their erroneous and evil ways. This too has also been the same, namely utter
destruction.
(৭:৬৩) েতামরা িক এ জনয অবাক হেচা েয, েতামােদর কােছ েতামােদর সীয় সমদােয়রই এক বযিকর মাধযেম েতামােদর রেবর সারক এেসেছ,
েতামােদরেক সতকর করার জেনয যােত েতামরা ভূল পেথ চলা েথেক রকা পাও এবং েতামােদর পিত অনুগহ করা হয়? ৪৯
৪৯. এ বযাপারিট ঘেটিছল হযরত নূহ (আ) ও তঁার জািতর মেধয ৷ িঠক এ একই ধরেনর ঘটনা ঘটিছল হযরত মুহামাদ সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম ও তঁার সমদােয়র
মেধয৷হযরত মুহামাদ (সাঃ)এর নবুওয়ােতর িবরেদ েযসব সেনহ পকাশ করিছল েসই একই ধরেনর সেনহ হাজার হাজার বছর আেগ হযরত নূেহর সমদােয়র পধানরাও
েপশ কেরিছল৷ আবার এসেবর জবােব হযরত নূহ (আ) েযসব কথা বলেতন, হযরত মুহামাদ (সাঃ) ও েসই একই কথা বলেতন৷ পরবতরীেত অনযানয নবীেদর ও তােদর
জািতর েযসব ঘটনা ধারাবািহকভােব বিণরত হেয়েছ েসখােনও এটাই েদখােনা হেয়েছ েয, পেতযক নবীর জািতর ভূিমকা মকাবাসীেদর ভূিমকার সােথ এবং পেতযক নবীর
ভাষণ মুহামাদ (সাঃ) এর ভাষেনর সােথ পুেরাপুির সাদৃশয রােখ৷ এর সাহােযয কুরআন তার পাঠক ও েশাতােদরেক একথা বুঝােত চায় েয, পিত যুেগ মানুেষর েগামরাহী
মূলগতভােব একই ধরেনর িছল এবং আলাহর পাঠােনা মানবতার িশককেদর দাওয়াতও পিত যুেগ পতযেকিট েদেশ একই রকম িছল৷ অনুরপভােব যারা নবীেদর দাওয়াত
েথেক মুখ িফিরেয় িনেয়েছ এবং িনেজেদর েগামরাহীর নীিতেত অিবচল েথেকেছ তােদর পিরণামও একই হেয়েছ এবং ভিবষযেতও হেব৷

‫ن َككّذُبوا ِبَآَياِتَنككا‬
َ ‫غَرْقَنككا اّلكِذي‬
ْ ‫ك َوَأ‬
ِ ‫ن َمَعُه ِفي اْلُفْل‬
َ ‫جْيَناُه َواّلِذي‬
َ ‫َفَكّذُبوُه َفَأْن‬
﴾7:64﴿ ‫ن‬
َ ‫عِمي‬
َ ‫ِإّنُهمْ َكاُنوا َقْوًما‬
(7:64) But they charged him with falsehood. Thereupon We delivered Noah and those
who were with him in the Ark, and caused those who rejected Our signs as false to be
drowned. *50 Surely they were a blind folk.
*50. An uninitiated reader of the Qur'an may, mistakenly conceive that the mission of each
Prophet - to call his people to God - would have finished after the few attempts they made in
that connection. Some people might even entertain a rather simplistic image of their mission. It
might be thought that a Prophet would have suddenly risen and proclaimed to his people that he
had been designated by God as a Prophet. This would have been followed by the raising of
objections to that claim. Subsequently, the Prophet concerned would have explained the matter
and might have removed their misgivings. The people would have stuck to their position, would
have rejected the Prophet's claim and called him a liar. whereupon God must have visited that
people with punishment.
The fact of the matter, however, is that the Qur'an has narrated in just a few lines a story that

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

was worked out over a long period of time. The brevity of the Qur'anic description owes itself
to the fact that the Qur'an is not interested per se in story-telling; that its narration and purpose
are didactic. Hence, while recounting a historical event, the Qur'an mentions only those
fragments of the event which are relevant, ignoring those details which are irrelevant to
Qur'anic purposes. Again, at different places in the Qur'an the same event is mentioned for a
variety of reasons. On every occasion only those fragments of the story which are relevant to a
specific purpose are mentioned and the rest are left out. An instance in point is the above
narrative about Noah. In narrating Noah's story the Qur'an aims to point out the consequences
attendant upon the rejection of the Prophet's Message. Since the total period spent on conveying
the Message does not have any direct relationship with that purpose, the Qur'an altogether
ignores it here. However, in passages where the Prophet and the Companions have been asked
to remain patient, the long duration of the Prophet Noah's missionary, effort has been
mentioned. This has been done precisely, with a view to raising the morale of the believers and
to prevent them from feeling low because they did not see any, good results coming out of that
struggle. By mentioning how Noah strove patiently for such a long period of time and in the
face of discouraging circumstances is quite relevant in this context as it helps to teach the
lesson which is intended. That lesson is to persist in serving the cause of the truth and to refuse
to be daunted by the adversity of the circumstances. See al-'Ankabut 29: 14.
It would be appropriate to remove, at this stage, a doubt which might agitate the minds of some
people. For one frequently reads in the Qur'an accounts of nations which rejected their Prophets
and charged them with lying. One also reads about the Prophets warning them of God's
punishment, and then about its sudden advent, scourging the nation and totally destroying it.
This gives rise to the question: Why do such catastrophic incidents not take place in our own
time? Nations still rise and fall, but the phenomenon of their rise and fall is of a different
nature. We do not see it happen that a nation is served with a warning, and is then totally
destroyed by a calamity such as an earthquake. a flood, a storm, or a thunderbolt.
In order to understand this it should be remembered that God treats a nation, which has directly
received God’s Message from a Prophet, in a different manner from nations, which have not
witnessed a Prophet. For if a nation directly witnesses a Prophet - an embodiment of
righteousness - and receives God's Message from his tongue, it has no valid excuse left for
rejecting that Message. And if it still rejects the Message, it indeed deserves to be summarily
punished. Other nations are to be placed in a different category since they received God's
Message indirectly. Hence, if the nations of the present time are not visited by; the devastating
punishments which struck the nations of the Prophets in the past, one need not wonder since
prophethood came to an end with the advent of Muhammad (peace be on him). One should
indeed have cause to wonder if one saw the opposite happen - that is, if the nations of the

present were visited by punishments from God, which had afflicted those nations that rejected
their Prophets face to face.
This does not mean, however, that God has ceased to inflict severe punishments on nations,
which turn away from God and are sunk in ideological and moral error. The fact is that God's
punishments still afflict different nations of the world. These punishments are both minor and
major. Minor punishments are aimed at warning those nations, and the major ones are of a
much more serious character and cause considerable damage. However, in the absence of the
Prophets who are wont to draw attention to moral degeneration as the basic cause of these
calamities, the historians and thinkers of our time only scratch the surface and explain these in
terms of physical laws or historical causes. These sophisticated explanations are of little help.
On the contrary, nations so afflicted with heedlessness and moral stupor are thereby further
prevented from appreciating that God has always warned evil-doing nations against following
their evil ways, and that when they willfully disregard these warnings and adamantly stick to
their erroneous ways. He ultimately inflicts disastrous punishments upon them.
(৭:৬৪) িকন তারা তােক িমথযাবাদী সাবযস করেলা৷ অবেশেষ আিম তােক ও তার সাথীেদরেক একিট েনৌকায় (আেরাহণ কিরেয় ) রকা কির এবং
আমার আয়াতেক যারা িমথযা বেলিছল তােদরেক ডুিবেয় েদই৷৫০ িনসেনেহ তারা িছল দৃিষশিকহীন জনেগািষ৷
৫০. কুরআেনর বণরনাভংগীর সােথ যােদর ভাল পিরচয় েনই তারা অেনক সময় এ সেনহ পেড় যান েয, সমবত এই সমগ বযাপারিট একিট বা দিট ৈবঠেকই সমন হেয়
িগেয়িছল৷ েগাটা কাযরধারা এরপ িছল বেল মেন হয় েয, নবী এেলন এবং িতিন িনেজর দাওয়াত েপশ করেলন৷ েলােকরা আপিত ও পশ উতাপন করেলা এবং িতিন তার
জবাব িদেলন৷ তারপর েলােকরা তঁার দাওয়াত পতযাখান করেলা আর অমিন আলাহ আযাব পািঠেয় িদেলন৷অথচ বযাপারিট িঠক এমন নয়৷ েযসব ঘটনােক যুথবদ কের এখােন
মাত কেয়কিট বােকয বণরনা করা হেয়েছ েসগেলা সংঘিটত হেত সুদীঘরকাল ও বছেরর পর বছর সময় েলেগিছল৷ কুরআেনর একিট িবেশষ বণরনা পদিত হেচ, কুরআন ও
শধুমাত গল বলার জেনয ঘটনা বা কািহনী বণরনা কের যায় না বরং িশকা েদবার জেনয বণরনা কের যায়৷তাই সবরত ঐিতহািসক ঘটনাবলী বণরনা করার সময় কািহনীর েকলমাত
েসই অংশটুকুই কুরআন উপসাপন কের, যার সােথ উেদশয ও মূল িবষয়বসর েকান সমকর থােক ৷ এ ছাড়া কািহনীর অনযানয িবসািরত িববরণেক সমূণর বাদ েদয়৷ আবার
যিদ েকান কািহনীেক িবিভন সময় িবিভন উেদেশয বণরনা কের থােক তাহেল সবরত উেদেশযর সােথ সামঞসয েরেখ িবিভন িবসািরত িববরণও েপশ কের থােক৷ েযমন এই নূহ
আলাইিহস সালােমর কািহনীিটর কথাই ধরা যাক৷ নবীর দাওয়াত পতযাখযান করার ও তােক িমথুযক বলার পিরণাম বণরনা করাই এখােন এর উেদশয ৷ কােজই নবী যত
দীঘরকাল পযরন িনেজর জািতেক দাওয়াত িদেত থােকেছন, েস কথা বলার এখােন েকান পেয়াজন িছল না৷ িকন েযখােন মুহামাদ সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম ও তঁার
সাথীেদরেক সবর করার উপেদশ েদয়ার উেদেশয এ কািহনী বণরনা করা হেয়েছ েসখােন িবেশষভােব নূহ আলাইিহস সালােমর দাওয়ােতর দীঘর সমেয়র উেলখ করা হেয়েছ
যােত নবী সালালাহ আলাইিহস সালাম ও তঁার সাথী গণ িনেজেদর মাত কেয়ক বছেরর পেচষা ও সাধনা ফলপসূ হেত না েদেখ হেতাদযম না হেয় পেড়ন এবং অনযিদেক
তারা েযন নূন আলাইিহস সালােমর সবেরর পিত দৃিষপাত কেরন, িযিন সুদীঘরকাল অতযন হতাশাবযঞক পিরেবেশ সেতযর দাওয়াত েদয়া অবযাহত েরেখেছন, এবং েকান
সময় একটুও হতাশ হনিন৷ (সূরা আনকবুত , আয়াত -১৪)
এখােন আর একিট সেনহ ও েদখা েদয়৷ এিট দূর করাও পেয়াজন৷ েকান বযিক যখন বারবার কুরআেন পড়েত থােক, অমুক জািত নবীর দাওয়াত পতযাখযান কেরিছল, নবী
তােদরেক আলাহর আযাব অবতীণর হবার খরব িদেয়িছেলন এবং অকসাত একিদন আলাহর আযাব এেস েসই জািতেক ধংস কের িদেয়িছল৷ এ সময় তার মেন পশ জােগ,
এ ধরেনর ঘটনা এখন ঘেট না েকন? যিদও এখেনা িবিভন জািতর উতান পতন হয় িকন এ উতান পতেনর ধরনই আলাদা৷ এখন েতা এমন হয় না েয, একিট সতকরবানী
উচারণ করার পর ভুিমকম, পাবন বা ঝড় এেলা এবং পুেরা এক একিট জািত ধংস হেয় েগেলা৷ এর জবােব বলা যায়, পকৃতপেক একজন নবী সরাসির েয জািতেক
দাওয়াত েদন তার বযাপারিট অনয জািতেদর বযাপার েথেক সমূণর আলাদা ধরেনর৷ েয জািতর মেধয েকান নবীর জন হয়, িতিন সরাসির তার ভাষায় তার কােছ আলাহর
বাণী েপৌিছেয় েদন এবং িনেজর িনখুঁত বযিক চিরেতর মাধযেম িনেজর িবশসতা ও সতযতার জীবন আদশর তার সামেন তূেল ধেরন এেত কের তার সমােন আলাহর যুিক
পমাণ তথা তার দাওয়াত পূণররেপ উপসািপত হেয়েছ বেল অকাটযভােব পমািণত হেয় যায় তার জেনয ওযর -আপিত েপশ করার আর েকান অবকাশই থােকনা৷ আলাহর
পাঠােনা রসূলেক সামনা -সামিন অসীকার করার পর তার অবসা এমন পযরােয় এেস েপৌেছ , যার ফেল ঘটনাসেলই তার সমেকর চূড়ান ফায়সালা হেয় যাওয়া জররী হেয়
পেড়৷ পকানের েযসব জািতর কােছ আলাহর বাণী সরাসির নয় বরং িবিভন মাধযেম এেস েপৌেছেছ তােদর বযাপারিটর ধরন এর েথেক সমূণর আলাদা৷ কােজই নবীেদর সময়
েযসব ঘটনার অবতারণা হেত েদখা েযেতা এখন যিদ আর েস ধরেনর েকান ঘটনা না ঘেট থােক তাহেল তােত অবাক হবার িকছুই েনই৷ কারণ, মুহামাদ সালালাহ
আলাইিহস সালােমর পর নবূওয়ােতর িসলিসলা বন হেয় েগেছ৷ তেব হঁা. েকান নবীেক সামনা সামিন পতযাখযান করার পর েকান জািতর ওপর েয আযাব আসেব েতমিন
ধরেনর েকান আযাব যিদ বতরমােন েকান জািতর ওপর আেস তাহেল তােতই বরং অবাক হেত হেব৷
িকন এর অথর এ নয় েয, বতরমােন েযসব জািত আলাহর িবরেদ িবেদাহাতক আচরণ করেছ এবং ৈনিতক ও িচনাগত িদক িদেয় েগামরাহীেত িলপ হেয়েছ তােদর ওপর
আলাহর আযাব আসা বন হেয় েগেছ৷পকৃতপেক এখেনা এসব জািতর ওপর আযাব আসেছ৷ কখেনা সতকরকারী েছাট েছাট আযাব, আবার কখেনা চূড়ান ফায়সালাকারী বড়
বড় আযাব৷ িকন আিময়া আলািহস সালাম ও আসমানী িকতাবগেলার মত এ আযাবগেলার ৈনিতক তাৎপেযরর পিত মানুেষর দৃিষ আকৃষ করার দািয়ত েকউ গহণ করেছ না৷
বরং এর িবপরীত পেক সুল দৃিষর অিধকারী িবজানী, সতয সমেকর অজ, ঐিতহািসক ও দাশরিনকেদর একিট িবরাট েগাষী মানব জািতর ঘােড় েচেপ বেস আেছ৷ তারা এ

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
ধরেনর যাবতীয় ঘটনার বযাখযা কের পাকৃিতক আইন বা ঐিতহািসক কাযরকারেণর মানদেণ ৷এভােব তারা মানুষেক অেচননতা ও িবসৃিতর মেধয িনেকপ করেত থােক৷ তারা
মানুষেক কখেনা একথা বুঝার সুেযাগ েদয় না েয, উপের একজন আলাহ আেছন, িতিন অসৎকমরশীল জািতেদরেক পথেম তােদর অসৎকেমরর জেনয সতকর কের েদন,
তারপর যখন তারা তঁার পাঠােনা সতকর সংেকতসমূহ েথেক েচাখ বন কের িনেয় িনেজেদর অসৎকেমর চািলেয় েযেত থােক অিবশান ভােব, তখন িতিন তােদরেক ধংেসর
আবেত িনেকপ কেরন৷

‫غْيكرُُه‬
َ ‫ن ِإَلكٍه‬
ْ ‫ل َما َلُككْم ِمك‬
َّ ‫عُبُدوا ا‬
ْ ‫ل َيا َقْوِم ا‬
َ ‫خاُهْم ُهوًدا َقا‬
َ ‫عاٍد َأ‬
َ ‫َوِإَلى‬
﴾7:65﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َتّتُقو‬
َ ‫َأَف‬
(7:65) And to 'Ad *51 We sent forth their brother Hud. He said: '0 my people! Serve
Allah; you have no other god than Him. Will you, then, not avoid evil?'
*51. 'Ad, an ancient Arab people, were well known throughout Arabia. They were known for
their proverbial glory and grandeur. And when they were destroyed, their extinction also
became proverbial. So much so that ttre word 'Ad has come to be used for things ancient and
the word 'adiyat for archaeological remains. The land whose owner is unknown and which is
lying fallow, from neglect is called 'adi al-ard.
The ancient Arabic poetry is replete with references to this people. Arab genealogists consider
the 'Ad as the foremost among the extinct tribes of Arabia. Once a person of the Banel Dhuhl b.
Shayban tribe, who was a resident of the 'Ad territory, called on the Prophet (peace be on him).
He related stories to the Prophet about the people of 'Ad, stories handed down to the people of
that region from generation to generation. (See Ahmad b. Hanbal, Musnad, vol. 3, p. 482 - Ed.)
According to the Qur'an the people of 'Ad lived mainly in the Ahqaf region which is situated to
the south-west of the Empty Quarter (al-Rub' al-Khali) and which lies between Hijaz, Yemen
and Yamamah. It was from there that the people of 'Ad spread to the western coast of Yemen
and established their hegemony in Oman, Hadramawt and Iraq. There is very little
archaeological evidence about the 'Ad. Only a few ruins in South Arabia are ascribed to them.
At a place in Hadramawt there is a grave, which is considered to be that of the Prophet Hud.
James R. Wellested, a British naval officer, discovered an ancient inscription in 1837 in a place
called Hisn al-Ghurab which contains a reference to the Prophet Hud. The contents
unmistakably bear out that those who followed the Shari’ah of Hud had written it. (For details
see Tafhim al-Qur'an, al-Al. Ahqaf 46, n. 25.)
(৭:৬৫) আর আদ (জািত)র ৫১ কােছ আিম পাঠাই তােদর ভাই হূদেক৷ েস বেলঃ “েহ আমার সমদােয়র ভাইেয়রা !েতামরা আলাহর ইবাদত কেরা৷
িতিন ছাড়া েতামােদর আর েকান ইলাহ েনই৷ এরপরও িক েতামরা ভুল পেথ চলার বযাপাের সাবধান হেব না? ”
৫১. 'আদ' িছল আরেবর পাচীনতম জািত৷ আরেবর সাধারণ মানুেষর মেখ মুেখ এেদর কািহনী পচিলত িছল৷ েছাট েছাট িশশরাও তােদর নাম জানেতা৷ তােদর অতীত কােলর
পতাপ-পিতপিতও েগৌরব গঁাথা পবাদ বােকয পিরণত হেয়িছল৷ তারপর দিনয়ার বুক েথেক তােদর নাম -িনশানা মুেছ যাওয়াটাও পবােদর রপ িনেয়িছল৷ আদ জািতর এ
িবপুল পিরিচিতর কারেণই আরবী ভাষায় পেতযকিট পাচীন ও পুরাতন িজিনেসর জেনয 'আিদ' শব বযবহার করা হয়৷ পাচীন ধংসাবেশষেক আিদয়াত , বলা হয়৷ েয জিমর
মািলক েবঁেচ েনই এবং চাষাবাদকারী না থাকার কারেণ েয জিম অনাবাদ পেড় থােক তােক 'আিদ-উল-আরদ' বলা হয়৷ পাচীন আরবী কিবতায় আমরা এ জািতর নােমর

বযবহার েদিখ পচুর পিরমােণ৷ আরেবর বংশধারা িবেশষজগণও িনেজেদর েদেশর িবলুপ জািতেদর মেধয সবরপথম এ জািতিটর নােমাচারণ কের থােকন৷ হাদীেস বলা হেয়েছ,
একবার নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর কােছ বনু যহল ইবেন শাইবান েগােতর এক বযিক আেসন৷ িতিন আদ জািতর এলাকার অিধবাসী িছেলন৷ িতিন পাচীনকাল
েথেক তােদর এলাকার েলাকেদর মেধয আদ জািত সমেকর েযসব িকংবদনী চেল আসেছ তা নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালামেক শনান৷
কুরআেনর বণরনা মেত এ জািতিটর আবাসসল িছল 'আহকাফ' এলাকা৷ এ এলাকািট িহজায, ইয়ামন ও ইয়ামামার মধযবতরী 'রাবয়ুল খালী'র দিকণ পিশেম অবিসত৷ এখন
েথেক অগসর হেয় তারা ইয়ামেনর পিশম সমুেদাপকূল এবং ওমান ও হাজরা মাউত েথেক ইরাক পযরন িনেজেদর কমতা ও কতৃরত িবসৃত কেরিছল৷ ঐিতহািসক দৃিষেত
এ জািতিটর িনদশরনাবলী দিনয়ার বুক েথেক পায় িনিশহ হেয় েগেছ৷ িকন দিকণ আরেবর েকাথাও েকাথাও এখেনা িকছু পুরাতন ধংস সপ েদখা যায়৷ েসগেলােক আদ
জািতর িনদশরন মেন করা হেয় থােক৷ হাজরা মাউেত এক জায়গায় হযরত হূদ আলািহস সালােমর নােম একিট কবরও পিরিচত লাভ কেরেছ৷ ১৮৩৭খৃসােব James
R.wellested নামক একজন ইংেরজ েনৌ-েসনাপিত 'িহসেন গরােব' একিট পুরাতন ফলেকর সনান লাভ কেরন এেত হযরত হূদ আলাইিহস সালােমর উেলখ
রেয়েছ৷এ ফলেক উৎকীণর িলিপ েথেক পিরষার জানা যায়, এিট হযরত হূেদর শরীয়ােতর অনুসারীেদর েলখা ফলক৷(আল আহকাফ েদখুন৷)

َ ‫ظّن ك‬
‫ك‬
ُ ‫س كَفاَهٍة َوِإّنككا َلَن‬
َ ‫ك ِفككي‬
َ ‫ن َقْوِمِه ِإّنا َلَنَرا‬
ْ ‫ن َكَفُروا ِم‬
َ ‫ل اّلِذي‬
َُ ‫ل اْلَم‬
َ ‫َقا‬
﴾7:66﴿ ‫ن‬
َ ‫ن اْلَكاِذِبي‬
َ ‫ِم‬
(7:66) The unbelievers among the leading men of his people said: 'Indeed we see you in
folly, and consider you to be liars.'
(৭:৬৬) তার সমদােয়র পধানরা যারা তার কথা মানেত অসীকার করিছল, তারা বলেলাঃ “আমরা েতা েতামােক িনবুরিদতায় িলপ মেন কির এবং
আমােদর ধারণা তুিম িমথুযক৷”

﴾7:67﴿

َ ‫ب اْلَعاَلِمي‬
‫ن‬
ّ ‫ن َر‬
ْ ‫ل ِم‬
ٌ ‫سو‬
ُ ‫سَفاَهٌة َوَلِكّني َر‬
َ ‫س ِبي‬
َ ‫ل َيا َقْوِم َلْي‬
َ ‫َقا‬

(7:67) He said: '0 my people! There is no folly in me; rather I am a Messenger from the
Lord of the universe.
(৭:৬৭) েস বলেলাঃ “েহ আমার সমদােয়র েলােকরা!আিম িনবুরিদতায় িলপ নই৷ বরং আিম রবুল আলামীেনর রসূল।"

﴾7:68﴿

ٌ ‫ح َأِمي‬
‫ن‬
ٌ‫ص‬
ِ ‫ت َرّبي َوَأَنا َلُكْم َنا‬
ِ ‫ل‬
َ ‫سا‬
َ ‫ُأَبّلُغكُْم ِر‬

(7:68) I convey to you the messages of my Lord, and I give you sincere advice.
(৭:৬৮) আমার রেবর বাণী েতামােদর কােছ েপৌছাই এবং আিম েতামােদর এমন িহতাকাংখী যার ওপর ভরসা করা েযেত পাের৷”

‫ل ِمْنُك كْم ِلُيْن كِذرَُكْم‬
ٍ ‫جك‬
ُ ‫عَلككى َر‬
َ ‫ن َرّبُك كْم‬
ْ ‫جككاَءُكْم ِذْك كٌر ِم ك‬
َ ‫ن‬
ْ ‫جْبُت كْم َأ‬
ِ‫ع‬
َ ‫َأَو‬
ِ ‫خْلك‬
‫ق‬
َ ‫ح َوَزاَدُككْم ِفككي اْل‬
ٍ ‫ن َبْعكِد َقكْوِم ُنككو‬
ْ ‫خَلَفككاَء ِمك‬
ُ ‫جَعَلُككْم‬
َ ‫َواْذُكُروا ِإْذ‬
﴾7:69﴿ ‫ن‬
َ ‫حو‬
ُ ‫ل َلَعّلُكْم ُتْفِل‬
ِّ ‫لَء ا‬
َ ‫طًة َفاْذُكُروا َآ‬
َ‫س‬
ْ ‫َب‬
(7:69) Do you wonder that an exhortation should come to you from your Lord through a
man from amongst yourselves that he may warn you? And do call to mind when He
made you successors after the people of Noah and amply increased you in stature.
Remember then the wondrous bounties *52 of Allah, that you may prosper.'
*52. The word ala' used in the above verse stands for bounties, wondrous works of nature, and

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

praiseworthy qualities. The purpose of the verse is to impress upon man to gratefully, recognize
the favours God has lavished upon him, bearing in mind that God also has the Power to take
them away.
(৭:৬৯) েতামরা িক এ জনয অবাক হেচা েয, েতামােদরেক সতকর করার উেদেশয েতামােদরই সেগাতীয় এক বযিকর মাধযেম েতামােদর রেবর সারক
েতামােদর কােছ এেসেছ? ভুেল েযেয়া না, েতামােদর রব নূেহর সমদােয়র পর েতামােদরেক তােদর সলািভিষক কেরন এবং অতযন সাসযবান, ও
সুঠাম েদেহর অিধকারী কেরন৷ কােজই আলাহর অপিরসীম শিকর কথা সরণ রােখা, ৫২ আশা করা যায় েতামরা সফলকাম হেব৷

৫২. মূল শবিট হেচ 'আলা'-৷ এর আিভধািনক অথর িনয়ামতসমূহ, কমতা ও পিতপিতর পতীকসমূহ, এবং পশংসনীয় চািরিতক গণাবলী ৷ আয়ােতর সািবরক মমর এই েয,
আলাহর অপার অনুগেহর কথাও মেন েরেখা, আবার এটাও ভুেল েযও না েয, িতিন েতামােদর কাছ েথেক অনুগহ িছিনেয় েনয়ারও কমতা রােখন৷

‫ن َيْعُبُد َآَباُؤَنا َفْأِتَنا ِبَمككا َتِع كُدَنا‬
َ ‫حَدُه َوَنَذَر َما َكا‬
ْ ‫ل َو‬
َّ ‫جْئَتَنا ِلَنْعُبَد ا‬
ِ ‫َقاُلوا َأ‬
﴾7:70﴿ ‫ن‬
َ ‫صاِدِقي‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ت ِم‬
َ ‫ن كُْن‬
ْ ‫ِإ‬
(7:70) They said: 'Have you come to us that we should worship none other than Allah
and forsake all whom our forefathers were wont to worship? *53 Then bring upon us the
scourge with which you have threatened us if you are truthful?'
*53. It is worth noting that the people of 'Ad neither disbelieved in God nor refused to worship
Him. They did not, however, follow, the teachings of Hud who proclaimed God alone should
he worshipped, and that none other may be associated in servitude to Him.
(৭:৭০) তারা জবাব িদেলাঃ “তুিম িক আমােদর কােছ এ জনয এেসেছা েয, আমরা একমাত আলাহর ইবাদত করেবা৷ এবং আমােদর বাপ-দাদারা
যােদর ইবাদত কের এেসেছ তােদরেক পিরহার করেবা? ৫৩ েবশ, যিদ তুিম সতযবাদী হও, তাহেল আমােদর েয আযােবর হমিক িদেচা, তা িনেয়
এেসা৷”
৫৩. এখােন আবার একথািট উেলখ করা পেয়াজন েয, এ জািতিটও আলাহেক অসীকার করেতা না, আলাহ সমেকর অজ িছল না৷ অথবা তঁার ইবাদত করেত অসীকার
করিছল না৷ আসেল তারা হযরত হূেদর একমাত আলাহ বেনগী করেত হেব এবং তঁার বেনগীর সােথ আর কােরার বেনগী যুক করা যােব না- এ বকবযিটই েমেন িনেত
অসীকার করিছল৷

ٍ‫سككَماء‬
ْ ‫جاِدُلوَنِني ِفي َأ‬
َ ‫ب َأُت‬
ٌ ‫ض‬
َ ‫غ‬
َ ‫س َو‬
ٌ ‫ج‬
ْ ‫ن َرّبُكْم ِر‬
ْ ‫عَلْيُكْم ِم‬
َ ‫ل َقْد َوَقَع‬
َ ‫َقا‬
‫ظُروا ِإّنككي‬
ِ ‫ن َفككاْنَت‬
ٍ ‫طا‬
َ ‫س كْل‬
ُ ‫ن‬
ْ ‫ل ِبَها ِم ك‬
ُّ ‫ل ا‬
َ ‫سّمْيُتُموَها َأْنُتْم َوَآَباُؤُكْم َما َنّز‬
َ
﴾7:71﴿ ‫ن‬
َ ‫ظِري‬
ِ ‫ن اْلُمْنَت‬
َ ‫َمَعكُْم ِم‬
(7:71) Hud warned them: 'Surely punishment and wrath from your Lord have befallen
upon you. Do you dispute with me about mere names that you and your forefathers have
concocted *54 and for which Allah has sent down no sanction? *55 Wait, then, and I too
am with you among those who wait.'
*54. They looked to gods of rain and gods of wind, wealth, and health. But none of these
enjoys godhead. There are many instances in our own time of people whose beliefs are no
different from the ones mentioned above. There are people who are wont to call someone

Mushkil Kusha, 'the remover of distress' or to call someone else Ganjbakhsh, 'the bestower of
treasures'. But God's creatures cannot remove the distresses of other creatures like themselves,
nor do they have any treasure that they might give away to others. Their titles are merely empty
words, bereft of the qualities attributed to them. All argumentation aimed at justifying those
titles amounts to a lot of sound and fury about nothing.
*55. The Makkans could produce no sanction from Allah - Whom they themselves
acknowledged as the Supreme God - that He had transferred to their false gods any of His
power or authority. None has any authorization from God to remove distress from, or bestow
treasures on, others. It is the Makkans themselves who arbitrarily chose to confer parts of God's
power on those beings.
(৭:৭১) েস বলেলাঃ “েতামােদর রেবর অিভসমাত পেড়েছ েতামােদর ওপর এবং তঁার গযবও৷ েতামরা িক আমার সােথ এমন িকছু নাম িনেয় িবতকর
করেছা, েযগেলা ৈতরী কেরেছা েতামরা ও েতামােদর বাপ-দাদারা ৫৪ এবং েযগেলার সপেক আলাহ েকান সনদ নািযল কেরনিন? ৫৫ িঠক আেছ,
েতামরা অেপকা কেরা এবং আিমও েতামােদর সােথ অেপকা করিছ৷”
৫৪. অথরাৎ েতামারা কাউেক বৃিষর েদবতা, কাউেক বায়ুর েদবতা, কাউেক ধন-সমেদর েদবতা, আবার কাউেক েরােগর েদবতা, বেল থােকা৷ অথচ তােদর েকউ মূলত েকান
িজিনেসর সষা ও পিতপালক নয়৷ বতরমান যুেগও আমরা এর দৃষান েদিখ৷ এ যুেগও েলােকরা েদিখ কাউেক িবপদ েমাচনকারী বেল থােক৷ অথচ িবপদ েথেক উদার করার
েকান কমতাই তার েনই৷ েলােকরা কাউেক 'গনজ বখশ', (গপ ধন ভাণার দানকারী) বেল অিভিহত কের থােক৷ অথচ তার কােছ কাউেক দান করার মত েকান ধনভাণার
েনই৷ কাউেক দাতা বলা হেয় থােক৷অথচ েস েকান িজিনেসর মািলকই নয়, েয কাউেক দান করেত পারেব৷ কাউেক 'গরীব নওয়াজ' আখযা েদয়া হেয় থােক৷ অথচ িতিন
িনেজই গরীব৷ েয ধরেনর কমতা ও কতৃরেতর ফেল েকান গরীবেক পিতপালন ও তার পিত অনুগহ করা েযেত পাের েসই ধরেনর কমতা ও কতৃরেত তার েকান অংশ েনই৷
কাউেক 'গউস' (ফিরয়াদ শবণকারী )বলা হয় অথচ কােরার ফিরয়াদ শনার এবং তার পিতকার করার েকান কমাতাই তার েনই৷ কােজই এ ধরেনর যাবতীয় নাম বা উপািধ
িনছক নাম বা উপািধ ছাড়া আর িকছুই নয়৷ এ নামগেলার িপছেন েকান সতা বা বযিকত েনই৷ যারা এগেলা িনেয় ঝগড়া ও িবতকর কের তারা আসেল েকান বাসব িজিনেসর
জেনয নয়, বরং েকবল কিতপয় নােমর জেনযই ঝগড়া ও িবতকর কের৷
৫৫. অথরাৎ েতামরা িনেজরাই েয, আলাহেক সবরেশষ রব বেল থােকা িতিন েতামােদর এ বােনায়াট ইলাহেদর সাবরেভৌম কমতা -কতৃরত ও পভুেতর সপেক েকান সনদ দান
কেরনিন৷ িতিন েকাথাও বেলনিন েয, আিম অমুেকর ও অমুেকর কােছ আমার ইলাহী কতৃরেতর এ পিরমাণ অংশ সানানিরত কের িদেয়িছ৷ কাউেক িবপদ তাতা, অথবা 'গনজ
বখশ' হবার েকান পেরায়ানা িতিন েদনিন৷ েতামরা িনেজরাই ধারণা ও কলনা অনুযায়ী তঁার ইলাহী কমতার যতটুকু অংশ যােক ইচা তােক দান কের িদেয়েছা৷

‫ن َك كّذُبوا ِبَآَياتَِنككا‬
َ ‫طْعَنككا َداِب كَر اّل كِذي‬
َ ‫حَمٍة ِمّنا َوَق‬
ْ ‫ن َمَعُه ِبَر‬
َ ‫َفَأْنجَْيَناُه َواّلِذي‬
﴾7:72﴿ ‫ن‬
َ ‫َوَما َكاُنوا ُمْؤِمِني‬
(7:72) Then We delivered Hud and his companions by Our mercy, and We utterly cut off
the last remnant of those who called the lie to Our signs and would not believe. *56
*56. The Qur'an informs us that God brought about the total extermination of the 'Ad, a fact
borne out by both Arabian historical traditions and recent archaeological discoveries. The 'Ad
were so totally destroyed and their monuments so completely effaced that the Arab historians
refer to them as one of the umam ba'idah (extinct peoples) of Arabia. The Arab tradition also
affirms that the only people belonging to the 'Ad who survived were the followers of the
Prophet Hud. These survivors are known as the Second 'Ad ('Ad Thaniyah). The Hisn alGhurib inscriptions referred to earlier (n. 51 above) are among the remaining monuments of
these people. One inscription, which is generally considered to date from the eighteenth century
B.C., as deciphered by the experts, contains the following sentences:

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

We have lived for a long time in this fort in full glory, free of all want. Our canals were always
full to the brim with water . . . Our rulers were kings who were far removed from evil ideas,
who dealt sternly with mischief-makers and governed us according to the Law of Hud. Their
edicts were recorded in a book. We believed in miracles and resurrection.
The above account fully corroborates the Qur'anic statement that it was only the companions of
Hud who survived and inherited the glory and prosperity of the 'Ad.
(৭:৭২) অবেশেষ িনজ অনুগেহ আিম হূদ ও তার সাথীেদরেক উদার কির এবং আমার আয়াতেক যারা িমথযা বেলিছল এবং যারা ঈমান আেনিন
তােদরেক িনিশহ কের েদই৷ ৫৬
৫৬. 'িনিশহ কের েদই' অথরাৎ তােদরেক িবধস ও ধংস কের িদেয়িছ৷ দিনয়ার বুক েথেক তােদর নাম -িনশানা মুেছ িদেয়িছ৷ পাথিমক পেবরর আদ জািত সমূণর ধংস হেয়
েগেছ এবং তােদর যাবতীয় িনদশরনও বুক েথেক িনিশহ হেয় েগেছ, একথা আরববাসীেদর ঐিতহািসক কথামালা ও িকংবদনী সমীহ েথেকও পমািণত হয় এবং আধুিনক
পততািতক আিবষারসমূহও এর সতযতা পমাণ কের৷তাই আরব ঐিতহািসকগণ তােদরেক িবলুপ জািত িহেসেবই গণয কের থােকন৷ তারপর আদ জািতর েকবলমাত েসই
অংশটুকুই দিনয়ার বুেক রেয় েগেছ যারা িছল হযরত হূদ আলাইিহস সালােমর অনুসারী , এটাও আরব ইিতহােসর একিট সীকৃত সতয৷ ইিতহােস আদ জািতর এ অবিশষাংশ
িদতীয় আদ নােম খযাত৷ উপের আমরা িহসেন গরােবর েয পুরাত ফলকিটর কথা উেলখ কেরিছ েসিট আসেল তােদরই সৃিতফলক৷ পততািতক িবেশষজগণ এ সৃিত ফলেক
(এিটেক হযরত ঈসার জেনর পায় ১৮শত বছর পূেবরর িলখন বেল মেন করা হেচ) েয উৎকীণর িলখন পাঠ কেরেছন, তার কিতপয় বাকয নীেচ উদৃত করা হেলাঃ
"আমরা সুদীঘরকাল এই দেগর এমন অবসর অিতবািহত কেরিছলাম যখন অভাব অনটন েথেক আমােদর জীবন িছল অেনক দূের৷ আমােদর খালগেলা নদীর পািনেত ভের
থাকেতা……… এবং আমােদর শাসকগণ এমন ধরেনর বাদশাহ িছেলন যারা িছেলন অসৎ িচনা মুক এবং দসৃতকারী ও িবপযরয় সৃিষকারীেদর পিত কেঠার মেনাভাবাপন৷
তারা হূেদর শরীয়াত অনুযায়ী আমােদর ওপর শাসন কাযর পিরচালনা করেতন এবং উতম ফায়সালাসমূহ একিট িকতােব িলিপবদ কের িনেতন৷ আমরা মুিজযা ও মৃতুযর পর
পুররতােনর পিত ঈমান রাখতাম৷"
কুরআেন েয কথা িবধৃত হেয়েছ েয, আদ জািতর পাচীন মিহমা, েগৌরব, ও সমৃিদর উতরািধকারী তারাই হেয়িছল যারা হূদ আলাইিহস সালােমর পিত ঈমান এেনিছল, এ
িলিপিট আেজা এরই সতযতা পমাণ কের যােচ৷

ٍ‫ن ِإَلكه‬
ْ ‫لك َمككا َلُككْم ِمك‬
َّ ‫عُبكُدوا ا‬
ْ ‫ل َيككا َقكْوِم ا‬
َ ‫حا َقا‬
ً ‫صاِل‬
َ ‫خاُهْم‬
َ ‫َوِإَلى َثُموَد َأ‬
ْ ‫ل َلُككْم َآَيكًة َفكَذُروَها َتْأُكك‬
‫ل‬
ِّ ‫ن َرّبُكْم َهِذِه َناقَُة ا‬
ْ ‫جاَءْتُكْم َبّيَنٌة ِم‬
َ ‫غْيُرُه َقْد‬
َ
﴾7:73﴿ ‫م‬
ٌ ‫ب َأِلي‬
ٌ ‫عَذا‬
َ ‫خَذُكْم‬
ُ ‫سوٍء َفَيْأ‬
ُ ‫سوَها ِب‬
ّ ‫ل َتَم‬
َ ‫ل َو‬
ِّ ‫ض ا‬
ِ ‫ِفي َأْر‬
(7:73) And to Thamud *57 We sent forth their brother. Salih. He said to them: '0 my
people! Serve Allah, you have no other god than Him. Truly there has come to you a
clear proof from your Lord. This she-camel from Allah is a Divine portent for you. *58
So leave her alone to pasture on Allah's earth, and touch her with no evil lest a painful
chastisement should seize you.
*57. The Thamud are another ancient Arab people, next only to the 'Ad in fame. Legends
relating to them were quite popular in pre-Islamic Arabia. In fact poetry and orations of the preIslamic (Jahiliyah) period abound with references to them. They are also mentioned in the
Assyrian inscriptions and in the Greek, Alexandrian and Roman works of history and
geography. Some descendants of the Thamud survived to a little before the birth of Jesus. The
Roman historians mention that they entered into the Roman army and fought against the

Nabateans, their arch-enemy.
The Thamud lived in the north-western part of Arabia which is still called al-Hijr. In the present
time there is a station on the Hijaz railway, between Madina and Tabuk. This is called Mada'in
Salih, which was the capital town of Thamud and was then known as al-Hijr, the rock-hewn
city. This has survived to this day and is spread over thousands of acres. No less than half a
million people once inhabited it. At the time of the revelation of the Qur'an Arab trade caravans
passed through the ruins of this city.
While the Prophet (peace be on him) was on his way, to Tabuk, he directed the Muslims to look
upon these monuments and urged them to learn the lessons which sensible persons ought to
learn from the ruins of a people that had been destroyed because of their evil-doing. The
Prophet (peace be on him) also pointed to the well from which the she-camel of the Prophet
Salih used to drink. He instructed the Muslims to draw water from that well alone and to avoid
all other wells. The mountain pass through which that she-camel came to drink was also
indicated by the Prophet (peace be on him). The pass is still known as Fajj al-Naqah. The
Prophet (peace be on him) then gathered all the Muslims who had been directed to look around
that city of rocks, and addressed them. He drew their attention to the tragic end of the Thamud,
who by their evil ways had invited God's punishment upon themselves. The Prophet (peace he
on him) asked them to hastily move ahead for the place was a grim reminder of God's severe
punishment and he hence called for reflection and repentance. (See waqidi, al-maghazi, vol. 3,
pp. 1006-8. See also the comments of Ibn Kathir on verses 73-8 - Ed.)
*58. The context seems to indicate that the clear proof referred to in the verse stands for the
she-camel, which is also spoken of as 'a Divine portent'. In al-Shu'ara' 26: 154-8 it is explicitly
mentioned that the Thamud themselves had asked the Prophet Salih to produce some sign
which would support his claim to be God's Messenger. Responding to it, Salih pointed to the
she-camel.
This illustrates clearly that the appearance of the she-camel was a miracle. Similar miracles had
been performed earlier by other Prophets with a view to fulfilling the demand of the
unbelievers and thus of vindicating their claim to prophethood. The miraculous appearance of
the she-camel reinforces the fact that Salih had presented it as a 'Divine portent' and warned his
people of dire consequences if they harmed it. He explained to them that the she-camel would
graze freely in their fields; that on alternate days she and other animals would drink water from
their well, They were also warned that if they harmed the she-camel they would be immediately
seized by a terrible chastisement' from God.
Such statements could obviously only have been made about an animal, which was known to be

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

of a miraculous nature. The Thamud observed the she-camel graze freely in their fields and she
and the other camels drank water on alternate days from their well. The Thamud, though
unhappy with the situation, endured this for quite some time. Later, however, after prolonged
deliberations, they killed her. Such lengthy deliberations demonstrate that they were afraid to
kill the she-camel. It is clear that the object of their fear was none other than the she-camel as
they had no reason to be afraid of Salih, who had no power to terrify them. Their sense of awe
for the she-camel explains why they let her graze freely on their land. The Qur'an, however,
does not provide any detailed information as to what the she-camel looked like or how she was
born. The authentic Hadith too provide no information about its miraculous birth. Hence, one
need not take too seriously the statements of some of the commentators on the Qur'an about the
mode of her birth. However, as far as the fact of her miraculous birth is concerned, that is borne
out bv the Qur'an itself.
(৭:৭৩) আর সামূেদর ৫৭ কােছ পাঠাই তােদর ভাই সােলহেক৷ েস বেলঃ েহ আমার সমদােয়র ভাইেয়রা! েতামরা আলাহর ইবাদত কেরা৷ িতিন ছাড়া
েতামােদর আর েকান ইলাহ েনই৷ েতামােদর কােছ েতামােদর রেবর সুষষ পমাণ এেস েগেছ৷ আলাহর এ উটনীিট েতামােদর জনয একিট িনদশরন৷ ৫৮
কােজই তােক আলাহর জিমেত চের খাবার জেনয েছেড় দাও৷ েকান অসদেদেশয এর গােয় হাত িদেয়া না৷ অনযথায় একিট যননাদায়ক আযাব
েতামােদর ওপর আপিতত হেব৷
৫৭. এিট আরেবর পাচীন জািতগেলার মেধয িদতীয় জািত৷ আেদর পের এরাই সবেচেয় েবশী খযািত ও পিরিচত অজরন কের৷ কুরআন নািযেলর পূেবর এেদর কািহনী সাধারণ
মানুেষর মুেখ মুেখ পচিলত িছল৷ জােহলী যুেগর কিবতা, ও খুতবা সািহেতয এর বযাপক উেলখ পাওয়া যায়৷ আিসিরয়ার িশলািলিপ, গীস, ইসকানদারীয়া ও েরােমর পাচীন
ঐিতহািসক ও ভুেগালিবগণও এর উেলখ কেরেছন৷ ঈসা আলাইিহস সালােমর জেনর িকছুকাল পুেবর ও এ জািতর িকছু িকছু েলাক েবঁেচিছল৷ েরামীয় ঐিতহািসকগেণর
মেত, এরা েরামীয় েসনাবািহনীেত ভিতর হেয় এেদর শত িনবতীেদর িবরেদ যুদ কের৷
উতর পিশম আরেবর েয এলাকিট আেজা 'আল িহজর' নােম খযাত েসখােনই িছল এেদর আবাস৷ আজেকর সউদী আরেবর অনগরত মদীনা ও তাবুেকর মাঝখােন িহজায
েরলওেয়র একিট েষশন রেয়েছ, তার নাম মাদােয়েন সােলহ৷এিটই িছল সামুদ জািতর েকনীয় সান৷ পাচীনকােল এর নাম িছল িহজর৷সামূদ জািতর েলােকরা পাহাড় েকেট
েযসব িবপুলায়তন ইমারত িনমরাণ কেরিছল এখেনা হাজার হাজার একর এলাকা জুেড় েসগেলা অবসান করেছ৷ এ িনঝুম পুরীিট েদেখ আনাজ করা যায় েয এক সমেয় এ
নগরীর জনসংখযা চার পঁাচ লােখর কম িছল না৷ কুরআন নািযল হওয়ার সময়কােল েহজােযর বযবসায়ী কােফলা এ পাচীন ধংসাবেশেষর মেধয িদেয় অিতকম করেতা৷ তাবুক
যুেদর সময় নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম যখন এ এলাকা অিতকম করিছেলন তখন িতিন মুসলমানেদরেক এ িশকানীয় িনদশরনগেলা েদখান এবং এমন িশকা দান
কেরন যা এ ধরেনর ধংসাবেশেষ েথেক একজন বুিদমান ও িবচকণ বযিকর িশকা গহণ করা উিচত৷এ জায়গায় িতিন একিট কুয়ার িদেক অংগিল িনেদরশ কের বেলন, এ
কুয়ািট েথেক হযরত সােলেহর উটনী পািন পান করেতা৷ িতিন মুসলমানেদরেক একমাত এ কুয়ািট েথেক পািন পান করেত বেলন এবং অনয সমস কুয়া েথেক পািন পান
করেত িনেষধ কেরন৷ একিট িগিরপথ েদিখেয় িতিন বেলন, এ িগিরপথ িদেয় হযরত সােলেহর উটনীিট পািন পান করেত আসেতা৷তাই েসই সানিট আেজা ফাজুন নাকাহ বা
উটনীর পথ নােম খযাত হেয় আেছ৷ তােদর ধংসসপগেলার মেধয েযসব মুসলমান েঘারােফরা করিছল তােদরেক একত কের িতিন একিট ভাষণ েদন৷ এ ভাষেণ সামুদ
জািতর ভয়াবহ পিরণাম তােদরেক িশকা গহেণর উপেদশ িদেয় িতিন বেলন, এিট এমন একিট জািতর এলাকা যােদর ওপর আলাহর আযাব নািযল হেয়িছল৷ কােজই এ
সানিট দত অিতকম কের চেল যাও৷ এটা ভমেনর জায়গা নয় বরং কানার জায়গা৷
৫৮. আয়াতিটর আপাত বকবয দৃেষ পিরসার অনুভূত হয় েয, পূেবরর বাকযিটেত আলাহর েয সুষষ পমােণর কথা বলা হেয়েছ, তা দারা এ পরবতরী বাকযিটেত িনদশরন,
িহেসেব উেলিখত উটনীিটই বুঝােনা হেয়েছ৷ সূরা শআরার ৮ রকূেত সুষষভােব উেলিখত হেয়েছ েয, সামুদ জািতর েলােকরা িনেজরাই হযরত সােলেহর কােছ এমন একিট
িনদশরেনর দাবী কেরিছল যা তঁার আলাহর পক েথেক িনযুিকর দযথরহীন ও অকাটয পমাণ িহেসেব িবেবিচত হেব এবং এির জবােব হযরত সােলহ উটনীিট হািজর কেরন৷ এ
েথেক একথা চূড়ানভােব পমািনত হয় েয, উটনীর আিবভরাব হেয়িছল মুিজযা িহেসেব এবং েকান েকান নবী তঁােদর নবুওয়ােতর পমাণ সরপ নবুওয়াত অসীকারকারীেদর
দাবীর জবােব েযসব মুিজযা েপশ কেরিছেলন এিট িছল েসই ধরেনরই একিট মুিজযা৷তাছাড়া হযরত সােলহ এই উটনীিট হািজর করার পর েয বকবয েরেখিছেলন তাও এর
অেলৌিকক জেনর পমাণ৷ িতিন নবুওয়াত অসীকারকারীেদরেক হমিক িদেয় বেলিছেলন, এখন এ উটনীিটর পােণর সােথ েতামােদর জীবন জিড়ত হেয় েগেছ৷ উটনীিট
সাধীনভােব েতামােদর েকেত চের েবড়ােব৷একিদন েস একাই পািন পান করেব এবং অনযিদন সমগজািতর যত পশ আেছ সবাই পািন পান করেব৷ আর যিদ েতামরা তার
গােয় েকানভােব হাত উঠাও তাহেল অকসাত েতামােদর ওপর আলাহর আযাব েনেম আসেব৷ বলা বাহলয েয িজিনসিটর অসাভািবকতা েলােকরা সচেক পতযক কেরিছল
একমাত েসই িজিনসিট সমেকরই এভােব কথা বলা সমব৷উপরন এ কথাও পিনধানেযাগয েয, দীঘরিদন ধের সামুদ জািতর েলােকরা তার সাধীনভােব চের েবড়ােনা এবং
একিদন তার একাকী পািন পান করা অনযিদন সমগ জািতর সমস পশেদর পািন পান করার িবষয়িট অিনচা সেতও বরদাশত কের এেসেছ৷ অবেশেষ অেনক শলা-পরামশর
ও ষড়যেনর পর তারা তােক হতযা কের৷ অথচ তােদর হযরত সােলহেক ভয় করার িকছুই িছল না৷ কারণ তঁার েকান কমতা বা পতাপ িছল না৷ এ অকাটয ও জলন সতয
দারা আেরা পমািণত হেচ েয, তারা এ উটনীর ভেয় ভীত -সসস িছল৷ তারা জানেতা, এর েপছেন িনশয়ই েকান শিক আেছ, তারই েজাের েস তােদর মেধয েদাদরণ পতােপ
ঘুের েবড়ায়৷ উটনীিট েকমন িছল এবং িকভােব জন লাভ করেলা,তার েকান বণরনা কুরআন েদয়িন৷ েকান িনভররেযাগয সহীহ, হাদীেসও এর িবসািরত েকান িববরণ েনই ৷
তাই এ উটনীিটর জনবৃতান সমেকর েযসব বণরনা মুফাসিসরগণ উদৃত কেরেছন তা েমেন েনয়া অপিরহাযর নয়৷ িকন এর জন েয, েকান না েকানভােব মুিজযা ও অেলৌিকক

ঘটনার পযরায়ভুক তা অবিশয কুরআন েথেক পমািণত৷

َ‫خككُذون‬
ِ ‫لْرضِ َتّت‬
َْ ‫عاٍد وََبّوَأُكْم ِفي ا‬
َ ‫ن َبْعِد‬
ْ ‫خَلَفاَء ِم‬
ُ ‫جَعَلُكْم‬
َ ‫َواْذُكُروا ِإْذ‬
َ ‫لك َو‬
‫ل‬
ِّ ‫لَء ا‬
َ ‫ل ُبُيوًتككا َفككاْذُكُروا َآ‬
َ ‫جَبككا‬
ِ ‫ن اْل‬
َ ‫حُتككو‬
ِ ‫صوًرا َوَتْن‬
ُ ‫سُهوِلَها ُق‬
ُ ‫ن‬
ْ ‫ِم‬
﴾7:74﴿ ‫ن‬
َ ‫سِدي‬
ِ ‫ض ُمْف‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫َتْعَثْوا ِفي ا‬
(7:74) And call to mind when He made you successors after 'Ad and gave you power in
the earth so that you took for yourselves palaces in its plains and hewed out dwellings in
the mountains. *59 Remember, then, the wondrous bounties of Allah and do not go about
creating mischief in the land.' *60
*59. The Thamud were highly skilful in rock carving, and made huge mansions by carving the
mountains, as we have mentioned earlier (see n. 57 above). In this regard the works of the
Thamud resemble the rock-carvings in the Ajanta and Ellora caves in India and several other
places. A few buildings erected by the Thamud are still intact in Mada'in Salih and speak of
their tremendous skills in civil engineering and architecture.
*60. The Qur'an asks people to draw a lesson from the tragic end of the 'Ad. For just as God
destroyed that wicked people and established Muslims in positions of power and influence
previously occupied by them, He can also destroy the Muslims and replace them by Others if
they should become wicked and mischievous. (For further elaboration see n. 52 above.)
(৭:৭৪) সরণ কেরা েসই সমেয়র কথা যখন আলাহ আদ জািতর পর েতামােদরেক তার সলািভিষক কেরন এবং পৃিথবীেত েতামােদরেক এমনভােব
পিতিষত কেরন যার ফেল আজ েতামরা তােদর সমতলভূিমেত িবপুলায়তন পাসাদ ও তার পাহাড় েকেট বাসগৃহ িনমরাণ করেছা৷ ৫৯ কােজই তঁার সবরময়
কমতার সরণ েথেক গােফল হেয় েযেয়া না এবং পৃিথবীেত িবপযরয় সৃিষ কেরা না৷ ৬০
৫৯. সামূদেদর এ গৃহ িনমরাণ িশলিট িছল ভারেতর ইেলারা , অজনা গূহাও অনযানয সােন পাপ পবরত গােতর গৃেহর নযায়৷ অথরাৎ তারা পাহাড় েকেট তার মধয িবরাট িবরাট
ইমারত ৈতরী করেতা৷ মাদােয়েন সােলহ এলাকায় এখেনা তােদর এসব ইমারত সমূণর অিবকৃত অবসায় রেয় েগেছ৷ েসগেলা েদেখ এ জািত সাপতয িবদযায় েকমন িবসয়কর
উনিত সাধন কেরিছল, তা অনুমান করা যায়৷
৬০. অথরাৎ আদ জািতর পিরণাম েথেক িশকা গহণ কেরা৷ েতামরা যিদ আদেদর মেতা িবপযরয় সৃিষ করেত থােকা, তাহেল েয মহান আলাহর অসাধারণ কমতা এ িবপযরয়
সৃিষকারী জািতেক ধংস কের িদেয় তার জায়গায় েতামােদরেক পিতিষত কের িদেয়িছেলন, েসই মহা শিকধর আলাহই আবার েতামােদরেক ধংস কের িদেয় অনযেদরেক
েতামােদর সলািভিষক করেত পােরন৷ (টীকা ৫২ দষবয৷)

‫ن ِمْنُهْم‬
َ ‫ضِعُفوا ِلَمنْ َآَم‬
ْ ‫سُت‬
ْ ‫نا‬
َ ‫ن َقْوِمِه ِلّلِذي‬
ْ ‫سَتْكَبُروا ِم‬
ْ ‫نا‬
َ ‫ل اّلِذي‬
َُ ‫ل اْلَم‬
َ ‫َقا‬
﴿ ‫ن‬
َ ‫ل ِبِه ُمْؤِمُنو‬
َ‫س‬
ِ ‫ن َرّبِه َقاُلوا ِإّنا ِبَما ُأْر‬
ْ ‫ل ِم‬
ٌ‫س‬
َ ‫حا ُمْر‬
ً ‫صاِل‬
َ ‫ن‬
ّ ‫ن َأ‬
َ ‫َأَتْعَلُمو‬
﴾7:75

(7:75) The haughty elders of his people said to those believers who had been oppressed:
'Do you know that Salih is one sent forth with a message from his Lord?' They, replied:

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

'Surely we believe in the message with which he has been sent.'
(৭:৭৫) তার সমদােয়র সেঘািষত পতাপশালী েনতারা দবরল েশনীর মুিমনেদরেক বলেলাঃ “েতামরা িক সিতয জােনা, সােলহ ও তার রেবর েপিরত
নবী? ” তারা জবাব িদেলাঃ “িনশয়ই, েয বাণী সহকাের তঁােক পাঠােনা হেয়েছ আমরা তা িবশাস কির৷”

﴾7:76﴿

َ ‫سَتْكَبُروا ِإّنا ِباّلِذي َآَمْنُتْم ِبِه َكاِفُرو‬
‫ن‬
ْ ‫نا‬
َ ‫ل اّلِذي‬
َ ‫َقا‬

(7:76) The haughty ones remarked. 'Most certainly we disbelieve in that which you
believe.'
(৭:৭৬) ঐ েশষেতর দাবীদাররা বলেলা , “েতামরা যা িবশাস কর আমরা তা অসীকার কির৷”

‫ح اْئِتَنككا ِبَمككا َتِعكُدَنا‬
ُ ‫صاِل‬
َ ‫ن َأْمِر َرّبِهْم َوَقاُلوا َيا‬
ْ‫ع‬
َ ‫عَتْوا‬
َ ‫َفَعَقُروا الّناَقَة َو‬
﴾7:77﴿ ‫ن‬
َ ‫سِلي‬
َ ‫ن اْلُمْر‬
َ ‫ت ِم‬
َ ‫ن ُكْن‬
ْ ‫ِإ‬
(7:77) Then they hamstrung the she-camel, *61 disdainfully disobeyed the commandment
of their Lord, and said: '0 Salih! Bring upon us the scourge with which you threatened us
if you are truly a Messenger [of Allah].'
*61. Although an individual killed the she-camel, as we learn also from surahs al-Qamar (54)
and al-Sharns (91), the whole nation was held guilty since it stood at the killer's back. Every
sin, which is committed with the approval and support of a nation, is a national crime even if
one person has committed it. In fact the Qur'an goes a step further and declares that a sin, which
is committed publicly in the midst of a gathering, is considered to be the collective sin of the
people who tolerate it.
(৭:৭৭) তারপর তারা েসই উটনীিটেক েমের েফলেলা, ৬১ পূণরদািমকতা সহকাের িনেজেদর রেবর হকুম অমানয করেলাএবং সােলহেক বলেলাঃ “িনেয়
এেসা েসই আযাব যার হকিম তুিম আমােদর িদেয় থােকা, যিদ সিতযই তুিম নবী হেয় থােকা৷”
৬১. সূরা কামার ও সূরা শাসম-এর বণরনা অনুযায়ী যিদও এক বযিকই েমেরিছল তবুও েযেহতু সমগ জািত এ অপরাধীর েপছেন ইনন যুিগেয়িছল এবং অপরাধী েলাকিট
িছল িনছক তার জািতর কীড়নক মাত,তাই অিভেযাগ আনা হেয়েছ সমগ জািতর িবরেদ৷ জািতর ইচা ও আকাংখা অনুযায়ী েয সমস গনাহ করা হয় অথবা েয সমস
গনাহ করার বযাপাের জািতর সমিত ও সমথরন থােক েকান বযিক িবেশষ েসগেলা করেলও জাতীয় গনােহরই পযরায়ভুক৷ শধু তাই নয়, কুরআন বেল, জাতীয় অংগেন
পকােশয েয গনাহ করা হয় এবং জািত তা বরদাশত কের েনয় তাও জাতীয় পাপ িহেসেব িবেবিচত৷

﴾7:78﴿

َ ‫جاِثِمي‬
‫ن‬
َ ‫حوا ِفي َداِرِهْم‬
ُ ‫صَب‬
ْ ‫جَفُة َفَأ‬
ْ ‫خَذْتُهُم الّر‬
َ ‫َفَأ‬

(7:78) Thereupon a shocking catastrophe seized them, *62 so that they lay prostrate in
their dwellings.
*62. Other Qur'anic expressions used for the calamity are 'rajifah' (earthquake) (al-Nazi'at 79:
6); 'sayah' (awesome cry) (Hud 11: 67); 'Sa'iqah' (thunderbolt) (al-Baqarah 2: 55); and
'taghiyah'' (roaring noise) (al-Haqqah 69: 5).

(৭:৭৮) অবেশেষ একিট পলয়ংকর দেযরাগ তােদরেক গাস করেলা ৬২ এবং তারা িনেজেদর ঘেরর মেধয মুখ থুবেড় পেড় রইল৷
৬২. এ দেযরাগেক এখােন -------(পলয়ংকর ও ভূকমেনর সাহােযয মৃতুযদানকারী) বলা হেয়েছ৷ অনয সােন এ জেনয ---------(চীৎকার,)-----(বজপাত) ও -------(িবকট শব) শবগেলা বযবহত হেয়েছ৷

‫ت َلُككْم‬
ُ ‫ح‬
ْ ‫سككاَلَة َرّبككي َوَنصَك‬
َ ‫ل َيا َقكْوِم َلَقكْد َأْبَلْغُتُككْم ِر‬
َ ‫عْنُهْم َوَقا‬
َ ‫َفَتَوّلى‬
﴾7:79﴿ ‫ن‬
َ ‫حي‬
ِ‫ص‬
ِ ‫ن الّنا‬
َ ‫حّبو‬
ِ ‫ل ُت‬
َ ‫ن‬
ْ ‫َوَلِك‬
(7:79) And Salih left them, saying: 'O my people! I conveyed to you the message of my
Lord and gave you good advice; but you have no liking for your well-wishers.'
(৭:৭৯) আর সােলহ একথা বলেত বলেত তােদর জনপদ েথেক েবর হেয় েগেলাঃ “েহ আমার সমদায়! আমার রেবর বাণী আিম েতামােদর কােছ
েপৌিছেয় িদেয়িছ এবং আিম েতামােদর জনয যেথষ কলযাণ কামনা কেরিছ৷ িকন আিম িক করেবা, েতামরা েতা িনেজেদর িহতাকাংখীেক পসনই কর
না৷”

َ ‫حكٍد ِمك‬
‫ن‬
َ ‫ن َأ‬
ْ ‫سكَبَقُكْم ِبَهككا ِمك‬
َ ‫شكَة َمككا‬
َ‫ح‬
ِ ‫ن اْلَفا‬
َ ‫ل ِلَقْوِمِه َأَتكْأُتو‬
َ ‫طا ِإْذ َقا‬
ً ‫َوُلو‬
﴾7:80﴿ ‫ن‬
َ ‫اْلَعاَلِمي‬
(7:80) And remember when We sent Lot [as a Message to his people and he said to
them: *63 'Do you realize you practice an indecency of which no other people in the
world were guilty of before you?
*63. The land inhabited by the people of Lot, which lies between Iraq and Palestine, is known
as Trans-Jordan. According to the Bible, its capital town was Sodom, which is situated either
somewhere near the Dead Sea, or presently lies submerged under it.. Apart from Sodom,
according to the Talmud, there were four other major cities, and the land lying between these
cities was dotted with such greenery and orchards that the whole area looked like one big
garden enchanting any onlooker. However, the whole nation was destroyed and today we can
find no trace of it. So much so that it is difficult to even locate the main cities, which they
inhabited. If anything remains as a reminder of this nation it is the Dead Sea, which is also
called the Sea of Lot. The Prophet Lot, who was a nephew of the Prophet Abraham,
accompanied his uncle as he moved away from Iraq. Lot sojourned to Syria, Palestine and
Egypt for a while and gained practical experience of preaching his message. Later God
bestowed prophethood upon him and assigned to him the mission of reforming his misguided
people. The people of Sodom have been referred to as the people of Lot presumably because
Lot may have established matrimonial ties with those people.
One of the many accusations recorded gainst Lot in the Bible - and the Bible has been tampered
with extensively by the Jews - is that Lot migrated to Sodom after an argument with Abraham
(Genesis 13: 10-12).

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

The Qur'an refutes this baseless charge and affirms that Lot was designated by God to work as
His Messenger among his people.*
The author refers to an argument between Abraham and Lot which he considers to be a
fabrication of Jews. The obvious basis of this is that such an argument between the Prophets is
inconceivable since it is unbecoming of them as Prophets. The basis of this inference is a
statement in Genesis 13:1-12.
It seems that there has been some confusion with regard to this inference. The verses of Genesis
in question make no reference to any strife between the two Prophets. The strife to which it
refers allegedly took place between the two Prophets. In addition, when the two Prophets parted
company it was on a pleasant note for Abraham had suggested that since there was an
abundance of land, Lot should choose that part of the land he preffered so as to exclude all
possibilities of strife between their herdsmen. (See Genesis 13:1-5-Ed.)
(৭:৮০) আর লূতেক আিম পয়গমর কের পাঠাই৷ তারপর সরণ কেরা, যখন েস িনেজর সমদােয়র
িনলরজ হেয় েগেল েয, দিনয়ার ইিতপূেবর েকউ কখেনা কেরিন এমন অশীল কাজ কের চেলেছা?

৬৩

েলাকেদরেক বলেলাঃ “েতামরা িক এতই

৬৩. বতরমােন েয এলাকািটেক টান জডর বলা হয় েসখােনই িছল এ জািতিটর বাস৷ ইরাক ও িফিলিসেনর মধযবতরী সােন এ এলাকািট অবিসত৷ বাইেবেল সাদূম েক এ জািতর
েকনসল বলা হেয়েছ৷ মৃত সাগেরর (Dead sea) িনকটবতরী েকাথাও এর অবসান িছল৷ তালমূেদ বলা হেয়েছ, সাদূম ছাড়া তােদর আেরা চারিট বড় বড় শহর িছল৷ এ
শহরগেলার মধযবতরী এলাকাসমূহ এমনই শযামল সবুেজ পিরপূণর িছল েয, মাইেলর পর মাইল জুেড় এ িবসৃত এলাকা েযন একিট বাগান মেন হেতা৷ এ এলাকার পাকৃিতক
েসৌনযর মানুষেক মুগ ও িবেমািহত করেতা৷ িকন আজ এ জািতর নাম- িনশানা দিনয়ার বুক েথেক িনিশহ হেয় েগেছ৷ এমনিক তােদর জনপদগেলা েকাথায় েকাথায়
অবিসত িছল তাও আজ সিঠকভােব জানা যায় না৷ মৃত সাগরই তােদর একমাত সৃিতিচহ িহেসেব িটেক আেছ৷ বতরমােন এিট 'লুত সাগর' নােম পিরিচত৷
হযরত লূত আলাইিহস সালাম িছেলন ইবরাহীম আলাইিহস সালােমর ভাইেপা৷ িতিন চাচার সােথ ইরাক েথেক েবর হন এবং িকছু কাল িসিরয়া, িফিলিসন ও িমসর সফর
কের দাওয়াত ও তাবলীেগর অিভজতা অজরন করেত থােকন৷ অতপর সতনভােব িরসালােতর মযরাদায় অিধিষত হেয় এ পথ ভষ জািতিটর সংসার ও সংেশাধেনর দািয়ত
পালেন িনেয়ািজত হন৷সাদূমবাসীেদর সােথ সমবত তঁার আতীয়তার সমেকরর কারেণ তােদরেক তার সমদায় িহেসেব উেলখ করা হেয়েছ৷
ইহদীেদর হােত িবকৃত বাইেবেল হযরত লূেতর চিরেতর বহতর কলংক কািলমা েলপন করা হেয়েছ৷ এর মেধয একিট উেলখেযাগয হেচ, িতিন নািক হযরত ইবরাহীম
আলাইিহস সালােমর সােথ ঝগড়াঝঁািট কের সাদূম এলাকায় চেল িগেয়িছেলন৷ (আিদপুসক ১৩:১-১২) িকন কুরআন এ িমথযাচােরর পিতবাদ করেছ৷ কুরআেনর বকবয মেত
আলাহ তােক রসূল িনযুক কের এ জািতর কােছ পাঠান৷

﴿

َ ‫سكِرُفو‬
‫ن‬
ْ ‫ل َأْنُتكْم َقكْوٌم ُم‬
ْ ‫ساِء َب‬
َ ‫ن الّن‬
ِ ‫ن ُدو‬
ْ ‫شْهَوًة ِم‬
َ ‫ل‬
َ ‫جا‬
َ ‫ن الّر‬
َ ‫ِإّنُكمْ َلَتْأُتو‬
﴾7:81

(7:81) You approach men lustfully in place of women. You are a people who exceed all
bounds.' *64
*64. The Qur'an refers elsewhere to the many evil deeds of the people of Lot. Here the Qur'an
confines itself to mentioning that most ignominious of crimes which invited God's scourge
upon them.

The hideous act of sodomy, for which the people of Lot earned notoriety, has no doubt been
committed by perverts in all times. The Greeks philosophers had the distinction of glorifying it
as a moral virtue. It was left, however, for the modern West to vigorously propagate sodomy so
much so that it was declared legal by the legislatures of a few countries. All this has been done
in the face of the obvious fact that this form of sexual intercourse is patently unnatural. God
created distinctions between the sexes of all living beings for the purposes of reproduction and
perpetuation of the species. As far as the human species is concerned, their creation into two
sexes is related to another end as well: that the two should come together in order to bring into
existence the family and establish human civilization. In view of this, not only were human
beings divided into two sexes, but each sex was made attractive to the other. The physical
structure and psychological make-up of each sex was shaped in keeping with the purpose of
forging bonds of mutual cordiality between the members of the two sexes. The sexual act,
which is intensely pleasurable is at once a factor leading to the fulfillment of nature's purposes
as underlined by the sexual division of humankind as well as a reward for fulfilling these
purposes.
Now, the crime of the person who commits sodomy in flagrant opposition to this scheme of
things is not limited to that act alone. In fact he commits along with it a number of other crimes.
First, he wages war against his own nature, against his inherent psychological predilection. This
causes a major disorder, which leads to highly negative effects on the lives of both the parties
involved in that unnatural act - effects which are physical, psychological as well as moral.
Second, he acts dishonestly with nature since while he derives sexual pleasure he fails to fulfill
the societal obligation of which this pleasure is a recompense. Third, such a person also acts
dishonestly with human society. For, although he avails himself of the advantages offered by
various social institutions, when he has an opportunity to act, he uses his abilities in a manner
which not only fails to serve that society but which positively harms it. Apart from neglecting
the obligations he owes to society, he renders himself incapable of serving the human race and
his own family. He also produces effeminacy in at least one male and potentially pushes at least
two females towards sexual corruption and moral depravity.
(৭:৮১) েতামরা েমেয়েদর বাদ িদেয় পুরষেদর দারা কাম-পবৃিত চিরতাথর করেছা? ৬৪ পকৃতপেক েতামরা এেকবােরই সীমালংঘনকারী েগাষী৷”
৬৪. অনযানয সােন এ জািতর আেরা কেয়কিট ৈনিতক অপরােধর কথা বণরনা করা হেয়েছ৷ িকন এখােন েকবলমাত তােদর সবেচেয় বড় অপরাধিটর উেলখ কেরই েছেড় েদয়া
হেয়েছ৷ এ অপরাধিটর ফেল তােদর ওপর আলাহর আযাব আপিতত হয়৷
এ ঘৃণয অপকমরিটর বেদৌলেত এ জািত যিদও দিনয়ার বুেক িচরিদনই িদকার ও কুখযািত কুিড়েয়েছ৷ িকন অসৎ ও দষমরশীল েলােকরা এ অপকমরিট েথেক কখেনা িবরত
থােকিন৷ তেব একমাত গীকরাই এ একক কৃিতেতর অিধকারী হেয়েছ েয, তােদর দাশরিনকরা এ জঘনয অপরাধিটেক উৎকৃষ ৈনিতক গেণর পযরােয় েপৌেছ েদবার েচষা
কেরেছ৷ এরপর আর েযটুকু বািক িছল, আধুিনক ইউেরাপ তা পূণর কের িদেয়েছ৷ ইউেরােপ এর সপেক বযাপক পচারণা চালােনা হেয়েছ৷ এমনিক একিট েদেশর (জামরানী)
পালরােমণ এেক রীিতমেতা ৈবধ গণয কেরেছ৷ অথচ সমকািমতা েয সমূণর পকৃিত িবেরাধী একথা একিট অকাটয সতয৷ মহান আলাহ শধুমাত সনান উৎপাদন ও বংশরকার
উেদশযই সকল পানীর মেধয নর-নারীর পাথরকয সৃিষ কের েরেখেছন৷ আর মানব জািতর মেধয এ িবিভনতার আর একিট বাড়িত উেদশয হেচ নর ও নারী িমেল এক একিট
পিরবােরর জন েদেব এবং তার মাধযেম সমাজ-সভযতা -সংসৃিতর িভত গেড় উঠেব৷ এ উেদেশযই নারী ও পুরেষর দিট পৃথক িলংেগর সৃিষ করা হেয়েছ৷তােদর মেধয েযৌন
আকষরণ সৃিষ করা হেয়েছ৷ পারষিরক দামতয উেদশয পূণর করার উপেযাগী কের তােদর শারীিরক ও মানিসক কাঠােমা গেড় েতালা হেয়েছ৷ তােদর পারসিরক আকষরণ ও
িমলেনর মেধযএমন একিট আনন মধুর সাদ রাখা হেয়েছ যা পকৃিতর উেদশয পূণর করার জেনয একই সংেগ আকষরনকারী ও আহবায়েকর কাজ কের এবং এ সংেগ তােদরেক
দান কের এ কােজর পিতদানও৷ িকন েয বযিক পকৃিতর এ পিরকলনার িবরদাচারণ কের সমৈমথুেনর মােধযম েযৌন আনন লাভ কের েস একই সংেগ কেয়কিট অপরাধ

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
কের৷ পথমত েস িনেজর এবং িনেজর সাভািবক ৈদিহক ও মানিসক কাঠােমার সােথ যুদ কের এবং তার মেধয িবরাট িবপযরয় সৃিষ কের৷ এর ফেল তােদর উভেয়র েদহ, মন ও
ৈনিতক বৃিতর ওপর অতযন কিতকর পভাব পেড়৷ িদতীয়ত, েস পকৃিতর সােথ িবশাসঘাতকতা কের৷ কারণ পকৃিত তােক েয আনন সাদ মানব জািতর ও মানিসক সংসৃিতর
েসবায় পিতদান িহেসেব িদেয়িছল, এবং যা অজরন করােক তার দািয়ত, কতরবয ও অিধকােরর সােথ শতরযুক কেরিছল, েসই সাদ ও আনন েস েকান পকার েসবামূলক
কাযরকম , কতরবয পালন, অিধকার আদায় ও দািয়ত সমাদন ছাড়াই েভাগ কের৷ তৃতীয়ত েস মানব সমােজর সােথ পকােশয িবশাসঘাতকা কের৷ কারণ সমােজ েয সমস
তামাদুিনক পিতষান ৈতরী কেরেছ েসগেলােক েস বযবহার কের এবং তার সাহােযয লাভবান হয়৷ িকন যখন তার িনেজর েদবার পালা আেস তখন অিধকার ,দািয়ত ও
কতরেবযর েবাঝা বহন করার পিরবেতর েস িনেজর সমগ শিকেক িনেরট সাথরপরতার সােথ এমনভােব বযবহার কের, যা সামািজক সংসৃত ও ৈনিতকতার জেনয েকবলমাত
অপেয়াজনীয় ও অলাভজনকই হয় না বরং িনদারনভােব কিতকরও হয়৷ েস িনেজেক বংশ ও পিরবােরর েসবার অেযাগয কের েতােল৷িনেজর সােথ অনতপেক একজন
পুরষেক নারী সূলভ আচরেনর িলপ কের৷ আর এই সংেগ কমপেক দিট েমেয়র জেনয েযৌন ভষতা ও ৈনিতক অধপতেনর দরজা উনুক কের েদয়৷

ٌ ‫ن َقْرَيِتُكْم ِإّنُهْم ُأَنككا‬
‫س‬
ْ ‫جوُهْم ِم‬
ُ ‫خِر‬
ْ ‫ن َقاُلوا َأ‬
ْ ‫ل َأ‬
ّ ‫ب َقْوِمِه ِإ‬
َ ‫جَوا‬
َ ‫ن‬
َ ‫َوَما َكا‬
﴾7:82﴿ ‫ن‬
َ ‫طهُّرو‬
َ ‫َيَت‬
(7:82) Their only answer was: 'Banish them from your town. They are a people who
pretend to be pure.' *65
*65. It is evident from the present verse that the people of Lot Were not only shameless and
corrupt, but were also a people who had sunk in moral depravity to such a degree that even the
presence of a few righteous persons had become intolerable to them. Their moral degradation
left them with no patience for anyone who sought to bring about any moral reform. Even the
slightest element of purity found in their society was too much for them, and they simply
wished to have their society purged of it.
When these people reached such a low point of wickedness and hostility to good, God decreed
that they be wiped out altogether. When the collective life of a people becomes totally bereft of
goodness and purity, it forfeits the right to exist on earth. Their example is like that of a basket
of fruit. As long as some fruit remains firm, there is some justification to keep that basket. But
the basket has to be thrown away when the fruit becomes rotten.
(৭:৮২) িকনততু তার সমদােয়র জওয়াব এ ছাড়া আর িকছুই িছল না েয, “এেদরেক েতামােদর জনপদ েথেক েবর কের দাও৷ এরা বড়ই পিবততার
ধজাধারী হেয়েছ৷” ৬৫
৬৫. এ েথেক জানা যায়,এ েলাকগেলা েকবল িনলরজ, দষৃিতকারী, ও দশিরতই িছল না বরং তারা ৈনিতক অধাপতেনর এমন চরেম েপৌেছ িগেয়িছল েয, িনেজেদর মেধয
কিতপয় সৎবযিকর ও সৎকেমরর িদেক আহবানকারী ও অসৎকেমরর সমােলাচনাকারীর অিসত পযরন বরদাশত করেত পসত িছল না৷তারা অসৎকেমরর মেধয এতদূর ডুেব
িগেয়িছল েয, সংেশাধেনর সামানযতম আওয়াজও িছল তােদর সেহযর বাইের৷ তােদর জঘনযতম পিরেবেশ পিবততার েয সামানযতম উপাদান অবিশষ েথেক িগেয়িছল তােকও
তারা উৎখাত করেত চাইিছল৷ এ ধরেনর একিট চুড়ান পযরােয় েপঁৌেছ যাবার পর আলাহর পক েথেক তােদরেক উৎখাত করার িসদান হয়৷ কারণ েয জািতর সমাজ জীবেন
পিবততার সামানযতম উপাদানও অবিশষ থােক না তােক পৃিথবীর বুেক বঁািচেয় রাখার েকান কারণই থাকেত পাের না৷ পচা ফেলর ঝুিড়েত যতকণ কেয়কিট ভাল ফল থােক
ততকণ ঝুিড়িট যেতর সােথ েরেখ েদয়া েযেত পাের৷ িকন এ ভাল ফলগেলা ঝুিড় েথেক েবর কের েনয়ার পর এই ঝুিড়িট যেতর সােথ সংরিকত কের রাখার পিরবেতর পেথর
ধাের েকান আবজরনার সেপ িনেকপ করারই েযাগয হেয় পেড়৷

﴾7:83﴿

َ ‫ن اْلَغاِبِري‬
‫ن‬
َ ‫ت ِم‬
ْ ‫ل اْمَرَأَتُه َكاَن‬
ّ ‫جْيَناُه َوَأْهَلُه ِإ‬
َ ‫َفَأْن‬

(7:83) Then We delivered Lot and his household save his wife who stayed behind, *66
*66. As the Qur'an mentions elsewhere, Lot's wife supported her disbelieving relatives to the
last.* Hence, when God directed Lot and his followers to migrate from that corrupt land, He

ordained that Lot's wife be left behind.
*This seems to be an inference from al- Tahrim 66: 10 - Ed.
(৭:৮৩) েশষ পযরন আিম লুেতর সীেক ছাড়া -েয েপছেন অবসানকারীেদর অনরভুক িছল ৬৬ তােক ও তার পিরবারবগরেক উদার কের িনেয় আিস ।
৬৬. অনযানয সােন সুসষভােব বেল েদয়া হেয়েছ েয, হযরত লূেতর এ সীিট সমবত এ সমদােয়ই কনযা িছল , েস তার িনেজর কােফর আতীয়েগািষর কেণ কণ িমলায়
এবং েশষ পযরনও তােদর সংগ ছােড়িন৷ তাই আযাব আসার পূেবর মহান আলাহ যখন হযরত লূত ও তঁার ঈমানদান সাথীেদরেক িহজরত করার িনেদরশ েদন তখন তঁার ঐ
সীেক সংেগ িনেত িনেষধ কেরন৷

﴾7:84﴿

‫ن‬
َ ‫جِرِمي‬
ْ ‫عاِقَبُة اْلُم‬
َ َ‫ف َكان‬
َ ‫ظْر َكْي‬
ُ ‫طًرا َفاْن‬
َ ‫عَلْيِهْم َم‬
َ ‫طْرَنا‬
َ ‫َوَأْم‬

(7:84) and We let loose a shower [of stones] upon them, *67 Observe, then, the end of the
evil-doers. *68
*67. The 'rainfall' in the verse does not refer to the descent of water from the sky. It refers
rather to the volley of stones. The Qur'an itself mentions that their habitations were turned
upside down and ruined. (See verse 85; also Hud 11:82-3; al-Hijr 15:74-E.)
*68. In light of this verse and other references in the Qur'an, sodomy is established as one of
the deadliest sins; and that it incurred God's scourge on those who indulged in it. We also know
from the teachings of the Prophet (peace be on him) that the Islamic state should purge society
of this crime and severely punish those guilty of it. There are several traditions from the
Prophet (peace be on him), which mention that very severe punishments were inflicted on both
partners of this act. According to one tradition, the Prophet (peace be on him) ordered that both
partners be put to death. (See Ibn Majah, Kitab al-Hudud, 'Bab man 'amila 'Amal Qawm ut'Ed.) In another tradition it has been added that the culprits should be put to death whether they
are married or un-married. (Ibn Majah, Kitab al-Hudad - Ed.) In another tradition it has been
said that both parties should be stoned (to death). (Ibn Majah, Kitab al-Hudad, 'Bab man 'amila
'Amal Qawm Lut ' - Ed.) However, since no case of sodomy was reported in the lifetime of the
Prophet (peace be on him), the punishment did not acquire a very clear and definitive shape.
Among the Companions, 'Ali is of the view that such sinners should be beheaded and instead of
being buried should be cremated. Abu Bakr also held the same view. However, 'Urnar and
'Uthman suggest that the sinners be made to stand under the roof of a dilapidated building,
which should then be pulled down upon them. Ibn 'Abbas holds the view that those guilty of
such a sinful act should be thrown from the top of the tallest building of the habitation and then
pelted with stones. (See al-Fiqh 'ala al-Madhahib al-Arba'ah, vol. 5, pp. 141-2 - Ed.) As for the
jurists, Shafi pronounces the punishment of death on both partners to sodomy irrespective of
their marital status, and of their role whether it be active or passive. According to Sha'bi, Zuhri,
Malik and Ahmad b. Hanbal, they should be stoned to death. Sa'id b. al-Musayyib, 'Ata', Hasan
Basri, Ibrahim Nakha'i, Sufyan Thawri and Awa'i believe that such sinners deserve the same
punishment as laid down for unlawful sexual-intercourse: that unmarried ones should be lashed

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

a hundred times and exiled, and that married ones should be stoned to death. Abu Hanifah,
however, does not recommend any specific punishment. For him, the sinner should be awarded,
depending on the circumstances of each case, some deterrent punishment. According to one of
the reports, the same was the view of Shafi'i. (See Ibn Qudamah, al-Mughni, vol. 8, pp. 187-8 Ed.)
It should also be made clear that it is altogether unlawful for the husband to perpetrate this act
on his wife. The Prophet (peace be on him), according to a tradition in Abu Da'ud, said: 'Cursed
be he who commits this act with a woman.' (Abu Da'ud, Kitab al-Nikah, 'Bab fi Jami ' al Nikah'
- Ed.) In other collections of Hadith such as Sunan of Ibn Majah and Musnad of Ahmad b.
Hanbal. we find the following saying of the Prophet (peace be on him): 'God will not even look
at him who commits this act of sodomy with his wife in her rectum.' (Ibn Majah, Kitab alNikah', 'Bab al-Nahy'an Ityan al-Nisa' fi Adbarihinn', Ahmad b. Hanbal, Musnad, vol. 2, p. 344
- Ed.) Likewise the following saying of the Prophet (peace be on him) is mentioned in
Tirmidhi: 'He who makes sexual intercourse with a menstruating woman, or indulges in
sodomy with a woman. or calls on a soothsayer, believing him to be true, denies the faith sent
down to Muhammad (peace be on him).' (Ibn Majah, Kitab al-Taharah, 'Bab al-Nahy 'an ityan
al-Ha'id'- Ed.)
(৭:৮৪) এবং এ সমদােয়র ওপর বৃিষ বষরণ কির৷ ৬৭ তারপর েসই অপরাধীেদর কী পিরণাম হেয়িছল েদেখা ৷ ৬৮
৬৭. বৃিষ মােন এখােন পািন -বৃিষ নয় বরং পাথর-বৃিষ ৷ কুরআেনর অনযানয সােন এ কথািট সুসষভােব বযক করা হেয়েছ৷ তাছাড়া কুরআেন একথাও বলা হেয়েছ েয,
তােদর জনপেদর উিলেয় িদেয় তােদরেক ধংস কের েদয়া হয়৷
৬৮. এখােন এবং কুআেনর আেরা িবিভন সােন েকবল এতটুকনু বলা হেয়েছ, েয, লূত জািত একিট অিত জঘনয ও েনাংরা পাপ কােজর অনুশীলন কের যািচল ৷ এবং এ
ধরেনর পার কােজর পিরণােম এ জািতর ওপর আলাহর গযব েনেম আেস৷ তারপর নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর িনেদরশনা েথেক আমরা একথা জানেত েপেরিছ েয,
এিট এমন একিট অপরাধ সমাজ অংগনেক যার কুলুষমুক রাখার েচষা করা ইসলামী রােষর দায়ীেতর অনভুরক এবং এ ধরেনর অপরাধকারীেদরেক কেঠার শািস েদয়া
উিচত৷এ পসংেগ নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম েথেক েয সমস হাদীস বিণরত হেয়েছ তার েকানিটেত বলা হেয়েছঃ----------(এঅপরাধকারী ও যার সােথ েস
অপরাধ কেরেছ তােদর উভয়েক হতযা কেরা)আবার েকানিটেত এর ওপর এতটুকু বৃিদ করা হেয়েছঃ
------------(িববািহত েহাক বা অিববািহত )৷আবার েকাথাও এও বলা হেয়েছঃ ----------------(ওপেরর ও নীেচর উভয়েক পাথর েমের হতযা কেরা৷) িকন েযেহতু নবী
সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর যুেগ এ ধরেনর েকান মামলা আেসিন তাই এর শািস িকভােব েদয়া হেব, তা অকাটযভােব িচিহত হেত পােরিন৷সাহাবীগেণর মেধয হযরত
আলীর(রা) মেত অপরাধীেক তরবারীর আঘােত হতযা করেত হেব এবং কবরস করার পিরবেতর তার লাশ পুিড়েয় েফলেত হেব৷ হযরত আবু বকর(রা) এ মত সমথরন
কেরন৷হযরত উমর(রা) ও হযরত উসমােনর (রা) মেত েকান পতেনানুখ ইমারেতর নীেচ তােক দঁাড় কিরেয় িদেয় ইমারতিটেক তার ওপর ধসীেয় িদেত হেব৷ এ বযাপাের
ইবেন আবােসর (রা) ফেতায়া হেচ, মহলার সবেচেয় উঁচু বািড়র ছাড় েথেক তােক পা উপেরর িদেক এবং মাথা িনেচর িদেক কের িনেকপ করেত এবং এই সংেগ উপর
েথেক তার ওপর পাথর িনেকপ করেত হেব৷ফকীহেদর মেধয ইমাম শােফঈ(র) বেলন, অপরাধী ও যার সােথ অপরাধ করা হেয়েছ তারা িববািহত েহাক বা অিববািহত ,
তােদর উভয়েক হতযা করা ওয়ািজব৷শাবী যুহরী, মািলক ও আহমদ (রােহমাহলাহর)মেত তােদর শািস হেচ রজম অথরাৎ পাথর েমের হতযা করা৷ সাঈদ ইবনুল
মুসাইেয়ব,আতা, হাসান বসরী, ইবরাহীম নাখঈ, সুিফয়ান সওরী , ও আওযাঈর (রােহমাহমুলাহর )মেত িযনার অপরােধ েয শািস েদয়া হয় এ অপরােধর েসই একই শািক
েদয়া হেব৷ অথরাঃ অিববািহতেক একশত েবতাঘাত কের েদশ েথেক বিহসার করা হেব, এবং িববািহতেক রজম করা হেব৷ ইমাম আবু হািনফার(র) মেত,তার ওপর েকান
দণিবিধ িনধরািরত েনই বরং এ কাজিট এমন েয, সরকার তার িবরেদ অবসা ও পেয়াজন অনুপােত েয েকান িশকনীয় শািসমূলক বযবসা গহণ করেত পারেবন৷এর সমথরেন
ইমান শােফঈর একিট বকবযও পাওয়া যায়৷
উেলখয েয, েকান বযিকর তার িনেজর সীর সােথও লূত জািতর কুকমর করা চূড়ানভােব হারাম৷ আবু দাউেদ নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর এ উিক উদৃত
হেয়েছঃ--------- (েয বযিক তার সীর পশােদেশ েযৌন কাযর কের েস অিভশপ৷) ইবেন মাজাহ ও মুসনােদ আহমেদ নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর এ বানী উদৃত
হেয়েছঃ -----------(েয বযিক িনেজর সীর পশােদেশ েযৌন সংগেম িলপ হয় আলাহ িকয়ামেতর িদন তার পিত দৃিষপাত করেবন না৷) ইমাম িতরিমযী তঁার আর একিট
িনেদরশ উদৃত কেরেছন৷ তােত বলা হেয়েছঃ

-------------------------------------"েয বযিক ঋতুবতী অবসায় সী সহবাস কের অথবা িনেজর সীর পশােদেশ েযৌন কাযর কের বা েকান গণেকর পিত িবশাস সাপন কের , েস মুহামােদর (সা) পিত অবতীণর
িবধান অসীকার কের"৷

ُ‫غْي كرُه‬
َ ‫ن ِإَلٍه‬
ْ ‫ل َما َلُكْم ِم‬
َّ ‫عُبُدوا ا‬
ْ ‫ل َيا َقْوِم ا‬
َ ‫شَعْيًبا َقا‬
ُ ‫خاُهْم‬
َ ‫ن َأ‬
َ ‫َوِإَلى َمْدَي‬
َ ‫سوا الّنككا‬
‫س‬
ُ‫خ‬
َ ‫ل َتْب‬
َ ‫ن َو‬
َ ‫ل َواْلِميَزا‬
َ ‫ن َرّبُكْم َفَأْوُفوا اْلَكْي‬
ْ ‫جاَءْتُكْم َبّيَنٌة ِم‬
َ ‫َقْد‬
ْ ‫خْيكٌر َلُككْم ِإ‬
‫ن‬
َ ‫حَها َذِلُككْم‬
ِ‫ل‬
َ ‫ض َبْعَد ِإصْك‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫سُدوا ِفي ا‬
ِ ‫ل ُتْف‬
َ ‫شَياَءُهْم َو‬
ْ ‫َأ‬
﴾7:85﴿ ‫ن‬
َ ‫ُكْنُتمْ ُمْؤِمِني‬
(7:85) And to Madian *69 We sent forth their brother Shu'ayb He exhorted them: O my
people! Serve Allah, you have no god but Him. Indeed a clear proof has come to you
from your Lord. So give just weight and measure and diminish not to men their things
' *70 and make no mischief on the earth after it has been set in good order. *71 That is to
your own good, if you truly believe. *72
*69. The territory of Madyan (Midian) lay to the northwest of Hijaz and south of Palestine on
the coast of the Red Sea and the Gulf of Aqaba, and part of the territory stretched to the
northern border of the Sinai Peninsula. The Indianite and their towns were situated at the
crossroads of the trade routes from Yemen through Makka and Yanbu' to Syria along the Red
Sea coast, and from Iraq to Egypt. Midian was, therefore, quite well known to the Arabs. In fact
it persisted in their memory long after its destruction for the Arab trade caravans en route to
Syria and Egypt passed through territories, which were full of the ruins of their monuments.
Another point worth noting about the people of Midian is that they were reckoned to be
descendants of Midyan, a son of the Prophet Abraharn born of his third wife, Qatura.
According to a custom of the time, persons who attached themselves to a notable family were
gradually counted as members of that family, as the descendants of that family's ancestor. It is
for this reason that a large majority of Arabs were called the descendants of Ismai'l. Likewise
those who embraced faith at the hands of Ya'qab's sons bore the general name 'the People of
Israel'. Now, since the inhabitants of Median owed allegiance to Midyan, son of Abraham, they
were referred to as the descendants of Midyan and their territory was called Median.
In view of this it should not be thought that the Prophet Shu'ayb invited them, for the first time,
to follow Divine Guidance. At the time of the advent of Shu'ayb their state was no different
from that of the Israelites at the time of the advent of Moses. They too were originally a
Muslim people who had subsequently moved far away from Islam. For six to seven centuries
they lived amongst a people who were steeped in polytheism and moral corruption, and this led
to their contamination with polytheism and moral corruption. Despite their deviation and
corruption, however, they claimed to be the followers of the true faith, and were proud of their
religious identification.
*70. This shows that the people of Median suffered from two major ailments - polytheism and

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

dishonesty in business. Shu'ayb devoted his efforts to purging them of those evils.
*71. The import of this statement has been explained earlier in notes 44-5 above. In his
exhortations to his people, Shu'ayb emphasized that they should not allow the order of life,
established by the previous Prophets on the foundations of true faith and sound morals, to be
corrupted by false beliefs and moral depravity.
*72. This clearly shows that the people concerned claimed to be believers, as we have already
pointed out. In fact, they were originally Muslims who had drifted away from Islam, who had
become enmeshed in a range of evils. They not only professed to be believers, but took great
pride in being so. (See n. 69 above - Ed. ) Shu'ayb made this fact the starting-point of his
preaching. He told them that if they indeed were believers they should live up to that fact; they
should consider their salvation to lie in practicing goodness and virtue, honesty and integrity;
and they should distinguish between good and evil on the basis of the standards followed by
righteous people rather than of those who believed neither in God nor in the Hereafter.
(৭:৮৫) আর মাদইয়ানবাসীেদর ৬৯ কােছ আিম তােদর ভাই েশাআইবেক পাঠাই৷ েস বেলঃ “েহ আমার সমদােয়র েলােকরা! আলাহর ইবাদত কেরা,
িতিন ছাড়া েতামােদর আর েকান ইলাহ েনই৷ েতামােদর কােছ েতামােদর রেবর সুষষ পথিনদরশনা এেস েগেছ৷ কােজই ওজন ও পিরমাপ পুেরাপুির
দাও, েলাকেদর পাওনা িজিনস কম কের িদেয়া না৷ ৭০ এবং পৃিথবী পিরশদ হেয় যাওয়ার পর তার মেধয আর িবপযরয় সৃিষ কেরা না৷ ৭১ এরই মেধয
রেয়েছ েতামােদর কলযাণ ,যিদ েতামরা যথাথর মুিমন হেয় থােকা৷” ৭২
৬৯. মাদইয়ােনর (মাদােয়ন) মূল এলাকিট িহজােযর উতর পিশেম এবং িফিলিসেনর দিকেণ েলািহত সাগর ও আকাবা উপসাগেরর উপকূেল অবিসত িছল৷ তেব সাইনা
(িসনাহ) উপদীেপর পূবর উপকূেলরও এর িকছুটা অংশ িবসৃত িছল৷ এখানকার অিধবাসীরা িছল একিট িবরাট বযবসায়ী সমদায়৷ পাচীন যুেগ েয বািণিজযক সড়কিট েলািহত
সাগেরর উপকূল ধের ইয়ামান েথেক মকা ও ইয়ামু হেয় িসিরয়া পযরন িবসৃত িছল এবং িদতীয় েয বািণিজযক সড়কিট ইরাক েথেক িমসেরর িদেক চেল েযেতা তােদর িঠক
সিনসেল এ জািতর জনপদগেলা অবিসত িছল ৷ এ কারেণ আরেবর েছাট বড় সবাই মাদইয়ানী জািত সমেকর জানেতা এবং এ জািতিট িনিশহ হেয় যাওয়ার পরও সারা
আরেব এর খযািত অপিরবিতরত থােক৷কারণ আরববাসীেদর বািণিজযক কােফলা িমসর ও ইরাক যাবার পেথ িদন রাত এর ধংসাবেশেষর েভতর িদেয়ই চলাচল করেতা৷
মাদইয়ানবাসীেদর সমেকর আর একিট পেয়াজনীয় কথা ভালভােব েজেন িনেত হেব৷ েসিট হেচ, এ মাদইয়ােনর অিধবাসীরা হযরত ইবরাহীেমর পুত িমিদয়ান এর সােথ
িবিভন রকেমর সমকর বনেন আবদ িছল৷িমিদয়ান িছেলন হযরত ইবরাহীেমর তৃতীয় সীর কাতুরা এর গভরজাত সনান৷ পাচীন যুেগর িনয়ম অনুযায়ী যারা েকান খযািতমান
পুরেষর সােথ সমিকরত থাকেতা তােদরেক কালকেম ঐ বযিকর সনান গণয কের অমুেকর বংশধর বলা হেতা৷ এ িনয়ম অনুযায়ী আরেবর জনসংখযার বৃহতর অংশ বনী
ইসমাঈল িহেসেব পিরিচত লাভ কের৷ অনযিদেক ইয়াকূেবর (অনয নাম ইসরাঈল) সনানেদর হােত ইসলাম গহণকারীেদর সবাই বনী ইসরাঈল নােম অিভিহত হয়৷ অনুরপ
ভােব ইবরাহীম আলাইিহস সালােমর পুত িমিদয়ােনর পভািবত মাদইয়ােনর অিধবাসীগণ বনী িমিদয়ান নােম পিরিচত হয় এবং তােদর েদেশর নামই হেয় যায় মাদইয়ান বা
িমিদয়ান৷ এ ঐিতহািসক তথযিট জানার পর এ েকেত ধারণা করার আর েকান কারণই থােক না েয, এ জািতিট সবরপথম হযরত েশাআইব আলাইিহস সালােমর মধযেমই
সতয দীন তথা ইসলােমর দাওয়াত েপেয়িছল৷ আিবভরাবকােল এেদর অবসা িছল একিট িবকৃত মুসিলম িমলােতর মত, েযমন মূসা আলাইিহস সালােমর আিবভরাবকােল িছল
বনী ইসরাঈেলর অবসা৷ হযরত ইবরাহীেমর পের ছয় সাত েশা বছর পযরন এরা মুশিরক ও চিরতহীন জািতেদর মেধয বাসবাস করেত করেত িশরক ও নানা রকেমর দষেমর
িলপ হেয় পেড়িছল৷ িকন এ সেতও এেদর ঈমােনর দাবী ও েস জেনয অহংকার করার মেনাবৃিত অপিরবিতরত িছল৷
৭০. এ েথেক জানা যায়, এ জািতর দিট বড় েদাষ িছল৷ একিট িশরক ও এবং অনযিট বযবসািয়ক েলন েদেন অসাধুতা৷ এ দিট েদাষ সংেশাধন করার জেনয হযরত
েশাআইব আলাইিহস সালামেক তােদর মেধয পাঠােনা হেয়িছল৷
৭১. এ বাকযিটর যথাযথ বযাখযা ইিতপূেবর আরােফর ৪৪ ও ৪৫নং টীকায় করা হেয়েছ৷ এখােন হযরত েশাআইব তঁার এ উিকিটর মাধযেম আভােস ইংিগেত েয কথািট
িবেশষভােব বলেত েচেয়েছন তা এই েয, পূবরবতরী নবীগেণর িবধান ও পথিনেদরশনার িভিতেত সতয দীন ও সৎ চািরিতক গণাবলীেত ভুিষত েয জীবন বযবসা গেড় উেঠিছল,
এখন েতামরা িনেজেদর ভান িবশাস ও ৈনিতক দষৃিতর মাধযেম তােক িবনষ কের িদেয়া না৷
৭২. এ বাকযিট েথেক পিরষার জানা যায়, তারা িনেজরা ঈমােনর দাবীদার িছল৷ ওপেরর আেলাচনায় আিম এিদেক ইংিগত কেরিছ৷ তারা আসেল িছল েগামরাহ ও িবকৃত
মুসলমান৷ িবশাসগত ও চািরিতক িবপযরয় িলপ থাকেলও তারা েকবল ঈমােনর দাবীই করেতা না বরং এ জেনয তােদর গবরও িছল৷ তাই হযরত েশাআইব বেলন, যিদ েতামরা
মুিমন হও, তাহেল েতামােদর এ িবশাস ও থাকা উিচত েয,সততা ও িবশসতার মেধযই কলযাণ িনিহত এবং েযসব দিনয়া পূজারী েলাক আলাহ ও আেখরাতেক সীকার কের

না েতামােদর ভাল -মেনর মানদণ তােদর েথেক আলাদা হওয়া উিচত৷

َ‫ن َآَم كن‬
ْ ‫ل َم ك‬
ِّ ‫ل ا‬
ِ ‫سِبي‬
َ ‫ن‬
ْ‫ع‬
َ ‫ن‬
َ ‫صّدو‬
ُ ‫ن َوَت‬
َ ‫عُدو‬
ِ ‫ط ُتو‬
ٍ ‫صَرا‬
ِ ‫ل‬
ّ ‫ل َتْقُعُدوا ِبُك‬
َ ‫َو‬
َ ‫ل َفَكّثَرُككْم َواْنظُكُروا َكْيك‬
‫ف‬
ً ‫جا َواْذُككُروا ِإْذ ُكْنُتكْم َقِلي‬
ً ‫عَو‬
ِ ‫ِبِه وََتْبُغوَنَها‬
﴾7:86﴿ ‫ن‬
َ ‫سِدي‬
ِ ‫عاِقَبُة اْلُمْف‬
َ ‫ن‬
َ ‫َكا‬
(7:86) And do not lie in ambush by every path [of life] seeking to overawe or to hinder
from the path of Allah those who believe, nor seek to make the path crooked.
Remember, how you were once few, and then He multiplied you, and keep in mind what
was the end of mischiefmakers.
(৭:৮৬) আর েলাকেদরেক ভীত সনস করার,ঈমানদারেদরেক আলাহর পেথ চলেত বাধা েদবার এবং েসাজা পথেক বঁাকা করার জনয (জীবেনর )
পিতিট পেথ লুেটরা হেয় বেস থােকা না৷ সরণ কেরা, েসই সমেয়র কথা যখন েতামরা িছেল সল সংখযক ৷তারপর আলাহ েতামােদর সংখযা বািড়েয়
েদন৷ আর িবপযরয় সৃিষকারীরা েকান ধরেনর পিরণােমর সমুখীন হেয়েছ তা একবার েচাখ েমেল তািকেয় েদেখা৷

‫طاِئَفكٌة َلكْم ُيْؤِمُنككوا‬
َ ‫ت ِبكِه َو‬
ُ ‫سكْل‬
ِ ‫طاِئَفٌة ِمْنُكْم َآَمُنككوا ِباّلكِذي ُأْر‬
َ ‫ن‬
َ ‫َوِإنْ َكا‬
﴾7:87﴿ ‫ن‬
َ ‫حاِكِمي‬
َ ‫خْيُر اْل‬
َ ‫ل َبْيَنَنا َوُهَو‬
ُّ ‫حُكَم ا‬
ْ ‫حّتى َي‬
َ ‫صِبُروا‬
ْ ‫َفا‬
(7:87) And if there are some among you who believe in the message that I bear while
some do not believe, have patience till Allah shall judge between us. He is the best of
those who judge.'
(৭:৮৭) েয িশকা সহকাের আমােক পাঠােনা হেয়েছ , েতামােদর মধয েথেক েকান একিট দল যিদ তার পিত ঈমান আেন এবং অনয একিট দল যিদ
তার পিত ঈমান না আেন তাহেল ৈধযরসহকাের েদখেত থােকা, যতকণ না আলাহ আমােদর মেধয ফায়সালা কের েদন৷ আর িতিনই সবেচেয় ভাল
ফায়সালাকারী৷

َ‫ب َواّلكِذين‬
ُ ‫شكَعْي‬
ُ ‫ك َيككا‬
َ ‫جّنك‬
َ ‫خِر‬
ْ ‫ن َقكْوِمِه َلُن‬
ْ ‫سكَتْكَبُروا ِمك‬
ْ ‫نا‬
َ ‫ل اّلِذي‬
َُ ‫ل اْلَم‬
َ ‫َقا‬
﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َأَوَلكْو ُكّنككا َكككاِرِهي‬
َ ‫ن ِفي ِمّلِتَنا َقككا‬
ّ ‫ن َقْرَيِتَنا َأْو َلَتُعوُد‬
ْ ‫ك ِم‬
َ ‫َآَمُنوا َمَع‬
﴾7:88

(7:88) The haughty elders of his people said: 'O Shu'ayb! We shall certainly banish you
and your companions-in-faith from our town, or else you shall return to our faith.'
Shu'ayb said: 'What! Even though we abhor [your faith]?
৮৮) িনেজেদর েশষেতর অহংকাের মত েগাতপিতরা তােক বলেলাঃ “েহ েশাআইব! আমরা েতামােক ও েতামার সােথ যারা ঈমান এেনেছ তােদরেক
আমােদর জনপদ েথেক েবর কের েদেবা৷ অনযথায় েতামােদর িফের আসেত হেব আমােদর ধেমর৷” েশাআইব জবাব িদেলাঃ “আমরা রািজ না হেলও িক
আমােদর েজার কের িফিরেয় আনা হেব? েতামােদর ধমর েথেক আলাহ আমােদর উদার করার পর আবার যিদ আমরা তােত িফের আিস,

‫لك ِمنَْهككا‬
ُّ ‫جاَنككا ا‬
ّ ‫عْدَنا ِفككي ِمّلِتُككْم َبْعكَد ِإْذ َن‬
ُ ‫ن‬
ْ ‫ل َكِذًبا ِإ‬
ِّ ‫عَلى ا‬
َ ‫َقِد افَْتَرْيَنا‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

ّ‫سكَع َرّبَنككا ُككل‬
ِ ‫لك َرّبَنكا َو‬
ُّ ‫شككاَء ا‬
َ ‫ن َي‬
ْ ‫ل َأ‬
ّ ‫ن َنُعككوَد ِفيَهككا ِإ‬
ْ ‫ن َلَنا َأ‬
ُ ‫َوَما َيُكو‬
َ ‫ق َوَأْنكك‬
‫ت‬
ّ‫ح‬
َ ‫ن َقْوِمَنا ِباْل‬
َ ‫ح َبْيَنَنا َوَبْي‬
ْ ‫ل َتَوّكْلَنا َرّبَنا اْفَت‬
ِّ ‫عَلى ا‬
َ ‫عْلًما‬
ِ ‫يٍء‬
ْ ‫ش‬
َ
﴾7:89﴿ ‫ن‬
َ ‫حي‬
ِ ‫خْيُر اْلَفاِت‬
َ
(7:89) If we return to your faith after Allah has delivered us from it we would be
fabricating a lie against Allah. nor can we return to it again unless it be by, the will of
Allah, our Lord. *73 Our Lord has knowledge of all things, and in Allah we put our trust.
Our Lord! Judge rightly between us and our people, for You are the best of those who
judge.'
*73. This phrase signifies substantively what is meant by the commonly used Islamic formula
In-sha' Allah ('If Allah so wills'). Its meaning is evident from al-Kahf 18: 23-4, in which the
believers are directed not to make definitive statements about what they will do without making
such actions contingent on God's will. This is understandable since a believer firmly believes in
God's power and is ever conscious that his destiny is inalienably tied to God's will. It is
impossible for such a person to make foolish statements about what he will do and what he will
not do. He is bound to make it clear that he will accomplish what he intends only, if 'God so
wills'.
(৭:৮৯) তাহেল আমরা আলাহর পিত িমথযা আেরাপকারী িবেবিচত হেবা৷ আমােদর রব আলাহ যিদ না চান, তাহেল আমােদর পেক েস িদেক িফের
যাওয়া আর েকানকেমই সমব নয়৷ ৭৩ আমােদর রেবর জান সমস িজিনসেক িঘের আেছ৷ আমরা তঁারই ওপর িনভরর কির৷ েহ আমােদর রব! আমােদর
ও আমােদর সমদােয়র মেধয যথাযথভােব ফায়সালা কের দাও এবং তুিম সবেচেয় ভাল ফায়সালাকারী৷”
৭৩. এ বাকযিট িঠক েসই অেথর বযবহত হেয়েছ েয অেথর আমরা ইনশাআলাহ বেল থািক এবং েয সমেকর সূরা কাহােফ (আয়াত ২৩-১৪)বলা হেয়েছঃ েকান িজিনস
সমেকর দাবী সহকাের একথা বেলা না, আিম এমনিট করেবা বরং এভােব বেলা, যিদ আলাহ চান তাহেল আিম এমনিট করেবা৷ কারণ েয মুিমন আলাহর সবরময় কতৃরত এবং
িনেজর দাসত অধীনতা ও বশযতা সমেকর যথাযথ উপলিবর অিধকারী হয়, েস কখেনা িনেজর শিকর ওপর ভরসা কের এ দাবী করেত পাের না- আিম অমুক কাজিট কেরই
ছাড়েবা অথবা অমুক কাজিট কখেনা করেবাই না৷ বরং েস এভােব বলেব, আমার এ কাজর করার বা না করার ইচা আেছ িকন আমরা এ ইচা পূণর হওয়া েতা আমার
মািলেকর ইচার ওপর িনভরর কের, িতিন তাওিফক দান করেল আিম সফলকাম হেবা অনযথায় বযথর হেয় যােবা৷

‫شككَعْيًبا ِإّنُكككْم ِإًذا‬
ُ ‫ن اّتَبْعُتككْم‬
ِ ‫ن َقككْوِمِه َلِئ‬
ْ ‫ن َكَفككُروا ِمكك‬
َ ‫ل اّلككِذي‬
َُ ‫ل اْلَم‬
َ ‫َوَقككا‬
﴾7:90﴿ ‫ن‬
َ ‫سُرو‬
ِ ‫خا‬
َ ‫َل‬
(7:90) The elders of his people who disbelieved said: 'Should you follow Shu'ayb, you
will be utter losers. *74
*74. One should not pass cursorily over this short sentence; instead one must reflect upon it.
What the leaders of Median in effect told their people was that Shu'ayb's exhortations to
practice honesty and righteousness, and to strictly adhere to moral values, would spell their
disaster. They implied that they could not succeed in the business carried on by the people of
Median if they were totally honest and straightforward in their dealings. Were they to let

trading caravans pass by unmolested, they would lose all the advantages of being located at the
crossroads of the major trade routes and by their proximity to the civilized and prosperous
countries such as Egypt and Iraq. Also, if they were to become peaceful and to cease their
attacks upon the trade caravans, they would no longer be held in awe by neighboring countries.
Such attitudes have not, however, been confined to the tribal chiefs of Shu'ayb. People who
stray away from truth, honesty and righteousness, regardless of their age and clime, have
always found in honesty a means of great loss. People of warped mentalities in every age have
always believed that trade, politics, and other worldly pursuits can never flourish unless they
resort to dishonest and immoral practices. The main objection against the Message of truth in
all ages has been that the pursuit of truth spells material doom.
(৭:৯০) তার সমদােয়র পধানরা, যারা তার কথা েমেন িনেত অসীকার কেরিছল, পরসরেক বলেলাঃ “যিদ েতামরা েশাআইেবর আনুগতয েমেন
নাও, তাহেল ধংস হেয় যােব৷” ৭৪
৭৪. এ েছাট বাকযিটর ওপর ভাসা ভাসা দৃিষ বুিলেয় এিগেয় যাওয়া উিচত নয়৷ এিট থমেক দঁািড়েয় গভীরভােব িচনা করার একিট সান৷ মাদইয়ােনর সরদাররা ও েনতারা
আসেল েয কথা বলিছল এবং িনেজর জািতেকও িবশাস করােত চাইিছল তা এই েয, েশায়াইব, েয সততা ও ঈমানদারীর দাওয়াত িদেচন এবং মানুষেক ৈনিতকতা, ও
িবশসতার েযসব সতন মূলনীিতর অনুসারী করেত চােচন, েসগেলা েমেন িনেল আমরা ধংস হেয় যােবা৷ আমরা যিদ পূণর সততার সােথ বযবসা করেত থািক এবং েকান
পকার পতারণার আশয় না িনেয় ঈমানদারীর সােথ পনয েবচােকনা করেত থািক তাহেল আমােদর বযবসা েকমন কের চলেব? আমরা দিনয়ার দিট সবেচেয় বড় বািনিজযক
সড়েকর সিনসেল বাস কির এবং িমসর ও ইরােকর মেতা দিট িবশাল সুসভয ও উনত রােষর সীমােন আমােদর জনপদ গেড় উেঠেছ৷এমতাবসায় আমরা যিদ বািণিজযক
কােফলার মালপত িছনতাই করা বন কের িদেয় শািনিপয় হেয় যাই তাহেল বতরমান েভৌগিলক অবসােনর কারেণ আমরা এতিদন েয অথরৈনিতক ও রাজনীেতক সুেযাগ
সুিবধা লাভ কের আসিছলাম তা একদম বন হেয় যােবএবং আেশপােশ িবিভন জািতর ওপর আমােদর েয পতাপ ও আিধপতয কােয়ম আেছ তাও খতম হেয় যােব৷ এ
বযাপারিট েকবল েশাআইব সমাদােয়র পধানেদর মেধযই সীমাবদ নয়৷ বরং পেতযক যুেগর পথভষ েলােকরা সতয, নযায়, সততা, ও িবশসতার নীিত অবলমন করার মেধয
এমিন ধেরনর িবপেদর আশংকা কেরেছ৷পেতযক যুেগর ৈনরাজযবাদীরা একথাই িচনা কেরেছ েয, বযবসায়-বািণজয, রাজনীিত, এবং অনযানয পািথরব িবষয়াবলী িমথযা,
েবঈমানী ও দনরীিত ছাড়া চলেত পাের না৷পেতযক জায়গায় সেতযর দাওয়ােতর েমাকািবলায় েযসব বড় বড় অজুহাত েপশ করা হেয়েছ তার মেধয একিট হেচ এই েয,যিদ
দিনয়ার পচিলত পথ েথেক সের িগেয় এ দাওয়ােতর অনুসরণ করা হয় তাহেল সমগ জািত ধংস হেয় যােব৷

﴾7:91﴿

َ ‫جاِثِمي‬
‫ن‬
َ ‫حوا ِفي َداِرِهْم‬
ُ ‫صَب‬
ْ ‫جَفُة َفَأ‬
ْ ‫خَذْتُهُم الّر‬
َ ‫َفَأ‬

(7:91) Thereupon a shocking catastrophe seized them, and they remained prostrate in
their dwellings.
(৭:৯১) িকনততু সহসা একিট পলয়ংকারী িবপদ তােদরেক পাকড়াও কের এবং তারা িনেজেদর ঘেরর মেধয মুখ থুবেড় পেড় থােক।

‫ش كَعْيًبا َكككاُنوا ُه كُم‬
ُ ‫ن َك كّذُبوا‬
َ ‫ن َلْم َيْغَنْوا ِفيَها اّلِذي‬
ْ ‫شَعْيًبا َكَأ‬
ُ ‫ن َكّذُبوا‬
َ ‫اّلِذي‬
﴾7:92﴿ ‫ن‬
َ ‫سِري‬
ِ ‫خا‬
َ ‫اْل‬
(7:92) Those who had charged Shu'ayb with lying became as though-they had never
lived there; it is they who became utter losers. *75
*75. The destruction of the people of Midian remained proverbial in Arabia for a long time. As
such the following lines in Psalms are significant:
Yea, they conspire with one accord; against thee they make a covenant –the tents of Edom and
the Ish'maelites.

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

Moab and the Hagrites, Gebal and Ammon and Am'alek, Philistia with the inhabitants of Tyre;
Assyria also has joined them; they are the strong arms of the children of Lot. Do to them as
thou didst to Mid'ian (Psalms 83: 5-9).
Note also the following statement in Isaiah:
A remnant will return, the remnant of Jacob, to the mighty God. For though your people Israel
be as the sand of the sea, only a remnant of them will return. Destruction is decreed,
overflowing with righteousness. For the Lord, the Lord of hosts, will make a full end, as
decreed, in the midst of all the earth. Therefore, thus says the Lord, the Lord of hosts: 'O my
people, who dwell in Zion be not afraid of the Assyrians when they smite you with their rod
and lift up their staff against you as the Egyptians did. For in a very little while my indignation
will come to an end, and my anger will be directed to their destruction. And the Lord of hosts
will wield against them a scourge, as when he smote Mid'ian at the rock of Oreb . . .' (Isaiah 10:
21-6).
(৭:৯২) যারা েশাআইবেক িমথযা বেলিছল তারা এমনভােব িনিশহ হেয় যায় েযন েসই সব গৃেহ েকানিদন তার বসবাসই করেতা না৷ েশাআইবেক যারা
িমথযা বেলিছল অবেশেষ তারা ধংস হেয় যায়৷ ৭৫
৭৫. মাদইয়ােনর এ ধংসলীলা দীঘরকাল পযরন আেশপােশ িবিভন জািতর মেধয পবাদ বােকয পিরণত হেয়িছল৷ তাই েদখা যায়, দাউদ আলাইিহস সালােমর ওপর অবতীণর
যবুেরর এক সােন বলা হেয়েছঃ েহ েখাদা!অমুক অমুক জািত েতামার িবরেদ অংগীকারাবদ হেয়েছ, কােজই তুিম তােদর সােথ িঠক েতমিন বযবহার কেরা, েযমন িমিদয়ােনর
সােথ কেরিছল৷
(৮৩:৫-৯) ইয়াসঈয়াহ নবী এক সােন বনী ইসরাঈলেক সাননা িদেত িগেয় বেলন, আশূরীয়েদরেক ভয় কেরা না যিদও তারা েতামােদর জেনয িমসরীয়েদর মতই জােলম
হেয় যােচ৷ িকন েবশী েদরী হেব না, বািহনীগেণর পভু তােদর ওপর িনেজর দণ বষরণ করেবন, এবং তােদর েসই একই পিরণিত হেব েযমব িমিদয়ােনর
হেয়িছল৷(িযশাইয়১০: ২২-২৬)৷

‫ت َلُككْم‬
ُ ‫ح‬
ْ ‫ت َرّبككي َوَنصَك‬
ِ ‫ل‬
َ ‫سككا‬
َ ‫ل َيا َقْوِم َلَقْد َأْبَلْغُتُكْم ِر‬
َ ‫عْنُهْم َوَقا‬
َ ‫َفَتَوّلى‬
﴾7:93﴿ ‫ن‬
َ ‫عَلى َقْوٍم َكاِفِري‬
َ ‫سى‬
َ ‫ف َآ‬
َ ‫َفَكْي‬
(7:93) Shu'ayb then departed from his people, and said: '0 my people! Surely I conveyed
to you the message of my Lord, and gave you sincere advice. How, then, can I mourn for
a people who refuse to accept the truth?' *76
*76. The stories narrated here have a definite didactic purpose and were narrated with a view to
highlighting their relevance to the time of the Prophet (peace be on him). In each of these
stories one of the parties is a Prophet who in respect of his teachings greatly resembles
Muhammad (peace be on him), in summoning his people to the right way, in admonishing
them, in sincerely seeking their welfare. At the other end of the scale in each narrative are the
unbelieving nations who greatly resembled the Quraysh in the time of the Prophet (peace be on
him) with regard to their disbelief and moral degeneration.
By recounting the tragic end of each of these unrighteous nations of the past, the Quraysh are

reminded of the moral purpose of these stories. Through the stories they are told that if, because
of their stubbornness they fail to follow the Messenger of God during the term of respite
granted to them, they will be subjected to the same destruction which befell those past nations
who persisted in wrong-doing and error.
(৭:৯৩) আর েশাআইব একথা বলেত বলেত তােদর জনপদ েথেক েবর হেয় যায়-“েহ আমাদর জািতর েলােকরা! আিম আমার রেবর বাণী েতামােদর
কােছ েপৌিছেয় িদেয়েছ এবং েতামােদর কলযাণ কামনার হক আদায় কেরিছ৷ এখন আিম এমন জািতর জনয দঃখ করেবা েকন,যারা সতযেক েমেন
িনেত অসীকার কের?”৭৬
৭৬. এখােন যতগেলা কািহনী বণরনা করা হেয়েছ সবগেলােত আসেল একজেনর ঘটনা বণরনা কের তার মেধয অনযজেনর েচহারা েদখােনা রীিত অবলমন করা
হেয়েছ৷এখানকার পেতযকিট কািহনী েস সময় মুহামাদ সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম ও তঁার জািতর মেধয যা িকছু সংঘিটত হিচল তার সােথ পুেরাপুির সাদৃশযপূণর৷
পেতযকিট কািহনী ও ঘটনার এক পেক একজন নবী আেছন৷ তঁার িশকা, দাওয়াত, উপেদশ ও কলযাণ কািমতা ও তঁার সমস কথাই মুহামাদ সালালাহ আলাইিহ ওয়া
সালােমর অনুরপ ৷আর পেতযকিট কািহনীর িদতীয় পেক আেছ সতয, পতযাখানকারী , েগািষ ,সমদায় ও জািত৷ তােদর আকীদাগত িবভািন, ৈনিতক চিরতহীনতা,
মূখরতাজিনত হঠকািরতা, তােদর েগাত পধানেদর েশষেতর অহিমকা এবং সতয অসীকারকারী েলাকেদর িনেজেদর েগামরাহীর বযাপাের একগেয়মী ইতযািদ সবিকছুই িঠক
েতমিন েযমন কুরাইশেদর মেধয পাওয়া েযেতা৷ আবার পেতযকিট কািহনীেত সতয অসীকারকারী জািতগেলার েয পিরণাম েদখােনা হেয়েছ তার মাধযেম আসেল
কুরাইশেদরেক িশকা েদয়া হেয়েছ েয, যিদ েতামরা আলাহর পাঠােনা নবীেদর কথা না মােনা এবং চিরত সংেশাধেনর েয সুেযাগ েতামােদর েদয়া হেচ অন িজদ ও
েগায়াতুরমীর বশবতরী হেয় তা েহলায় হািরেয় বেসা, তাহেল িচরিদন েগামরাহী ও িফতনা -ফাসােদর েকেত িজদ ধের িবিভন জািত েযমন পতন ও ধংেসর সমুখীন হেয়েছ,
েতামরাও েতমিন ধংেসর সমুখীন হেব৷

‫سككاِء َوالضّكّراِء‬
َ ‫خكْذَنا َأْهَلَهككا ِباْلَبْأ‬
َ ‫ل َأ‬
ّ ‫ي ِإ‬
ّ ‫ن َنِبك‬
ْ ‫سْلَنا ِفي َقْرَيٍة ِمك‬
َ ‫َوَما َأْر‬
﴾7:94﴿ ‫ن‬
َ ‫عو‬
ُ ‫ضّر‬
ّ ‫َلَعّلُهْم َي‬
(7:94) Never have We sent a Prophet to a place without trying its people with adversity
and hardship that they may humble themselves.
(৭:৯৪) আিম যখনই েকান জনপেদ নবী পািঠেয়িছ, েসখানকার েলােকেদরেক পথেম অথরকষ ও দঃখ -দদরশার সমুখীন কেরিছ, একথা েভেব েয,
হয়েতা তারা িবনম হেব ও নিত সীকার করেব৷

‫س َآَباَءَنككا‬
ّ ‫عَفكْوا َوَقككاُلوا َقكْد َمك‬
َ ‫حّتككى‬
َ ‫سكَنَة‬
َ‫ح‬
َ ‫سكّيَئِة اْل‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ُثّم َبكّدْلَنا َمَكككا‬
﴾7:95﴿ ‫ن‬
َ ‫شُعُرو‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫خْذَناُهْم َبْغَتًة َوُهْم‬
َ ‫سّراُء َفَأ‬
ّ ‫ضّراُء َوال‬
ّ ‫ال‬
(7:95) Then We changed adversity into ease until they throve and said: 'Our forefathers
had also seen both adversity and prosperity.' So We suddenly seized them without their
even perceiving it. *77
*77. After narrating individually the stories of how various nations responded to the Message
of their Prophets, the Qur'an now spells out the general rule, which has been operative
throughout the ages. First, before the appearance of a Prophet in any nation, conditions that
would conduce to the acceptance of his Message were created. Subjecting the nations
concerned to a variety of afflictions and punishments usually did this. They were made to suffer
miseries such as famine, epidemics, colossal losses in trade and business, defeat in war. Such
events usually have a healthy impact on people. They lead to a softening in their hearts. They
generate humility and modesty. They enable people to shake off their pride and shatter their
reliance on wealth and power and induce them to trust the One Who is all-powerful and fully
controls their destiny. Above all, such events incline people to heed the words of warning and

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

to turn to God in humility.
But if the people continue to refrain from embracing the truth they are subjected to another kind
of test - that of affluence. This last test signals the beginning of their destruction. Rolling in
abundant wealth and luxury, people are inclined to forget the hard times they have experienced.
Their foolish leaders also inculcate in their minds an altogether preposterous concept of history.
They explain the rise and fall of nations and the alternation of prosperity and adversity among
human beings by reference to blind natural forces, and in total disregard of moral values. Hence
if a nation is seized by an affliction or scourge, such people see no reason why it should be
explained in terms of moral failure. They are rather inclined to consider that a person's
readiness to heed moral admonition or to turn humbly towards God is a sign of psychological
infirmity.
This foolish mentality has been portrayed all too well by the Prophet (peace be on him): 'A
believer continually faces adversity until he comes out of it purified of his sins. As for the
hypocrite, his likeness in adversity is that of a donkey who does not know why his master had
tied him and why he later released him.' (Cited by Ibn Kathir in his comments on the verse Ed.) Hence, when a people become so hard of heart that they neither turn to God in suffering,
nor thank Him for His bounties in prosperity, they are liable to be destroyed at any moment.
It should be noted that the above rule which was applied to the nations of the previous Prophets,
was also applied in the time of the Prophet Muhammad (peace be on him). When this surah was
revealed the Quraysh displayed exactly the same characteristics and attitudes as those nations
which had earlier been destroyed. According to a tradition narrated by both 'Abd Allah b.
Mas'ud and Abd Allah b. 'Abbas, as the Quraysh grew in defiance to the Prophet's call, he
prayed to God that he might be assisted by inflicting famine on the Quraysh, as in the days of
the Prophet Joseph. Accordingly, God subjected the Quraysh to such a severe famine that they
took to subsisting on carcasses, the skins of animals, bones, and wool. Unnerved by this the
Quraysh, led by Abu Sufyan, implored the Prophet (peace be on him) to pray to God on their
behalf. But when the Prophet*s prayer helped to improve the situation somewhat, the Quraysh
reverted to their arrogant and ignorant way's. (Bukhari, Kitab al-Taharah, Bab idha istashfa'a alMushrikun bi al-Muslim' - Ed.) The wicked ones among them tried to dissuade from God those
who had derived some lesson from the famine. They argued that famines take place in course of
operation of natural laws, that they are merely a recurrent physical phenomenon.
They emphasized that the occurrence of famine should not mislead people into believing in
Muhammad (peace be on him). It was during this time that the surah under discussion was
revealed. The above verses were thus quite relevant and it is against this backdrop that one

appreciates their full significance. (For details see Yunus 10: 21, al-Nahl 16: 112, al-Muminun
23: 75-6; and al-Dukhan 44: 9-16.)
(৭:৯৫) তারপর তােদর দরবসােক সমৃিদেত ভের িদেয়িছ৷ ফেল তারা পাচুেযর পিরপূণর হেয় েগেছ এবং বলেত শর কেরেছ আমােদর পূবরপুরষেদর
ওপরও দিদরন ও সুিদেনর আনােগানা চলেতা৷ অবেশেষ আিম তােদরেক সহসাই পাকড়াও কেরিছ৷ অথচ তারা জানেতও পােরিন৷ ৭৭
৭৭. এক একজন নবী ও এক একিট সমেয়র বযাপার আলাদা আলাদা ভােব বণরনা করার পর একিট সাধারণ ও সবরবযাপী িনয়ম ও িবধান বণরনা করা হেচ৷ পিত যুেগ
পেতযক নবীেক েপরণ করার সময় মহান আলাহ এ িনয়মিট অবলমন কেরন৷ িনয়মিট হেচ, যখনই েকান সমদােয়র মেধয েকান নবী পাঠােনা হেয়েছ তখনই পথেম েসই
সমদােয়র বািহযক পিরেবশেক নবীর দাওয়াত গহেণর জেনয সবরািধক অনুকূল ও উপেযাগী বানােনা হেয়েছ৷ অথরাৎ তােদরেক রকমির দেযরাগ দিবরপাক ও িবপেদর মুেখ েঠেল
েদয়া হেয়েছ৷ দিভরক , মহামারী, বানীিজযক , কয়কিত, সামিরক পরাজয় ও এ ধরেনর আেরা নানান, দেভরাগ, তােদর ওপর চািপেয় েদয়া হেয়েছ যােত তােদর মন নরম
হেয় যায়, অহংকার ও ঔদেতযর দৃপ গীবা নত হয়, শিকমদততা, ও ধনিলপা িনেসজ হেয় পেড়৷িনেজেদর উপায় -উপকরণ, শিক, ও েযাগযতার ওপর িনভররতা েভংেগ
পেড় এবং তারা যােত অনুভব করেত পাের েয,ওপের অনয েকান শিকধর সতা আেছ এবং তারই হাত রেয়েছ, তােদর ভােগযর লাগাম৷এভােব উপেদেশর বানী েশানার জেনয
তােদর কান খুেল যােব এবং িনেজেদর পভু পরওয়ারিদগােরর সামেন সিবনেয় িশর আনত করার জেনয তারা পসত হেয় যােব৷তারপর এ ধরেনর উপেযাগী পিরেবেশও তােদর
মন সতযেক গহণ করেত উেদযগী না হেল সমৃিদ ও পাচুেযরর পরীকার মেধয তােদরেক েঠেল েদয়া হয়৷ এখান েথেকই শর হয় তােদর ধংেসর পিকয়া৷ পাচুযর ও সমৃিদর
মেধয জীবন যাপন করার সময় তারা িনেজেদর দিদরেনর কথা ভূেল যায়৷ তােদর িবকৃত িবেবকবুিদ সমন েনতৃতবগর তােদর মেনাজগেত ইিতহােসর এ িনেবরাধ সুলভ দারণা
ঢুিকেয় েদয় েয, জগেত যা িকছু উতান পতন ও ভাংগা -গড়া চেলেছ, তা েকান িবচকন কুশলী সতার সুষু বযবসাপনায় হেচ না এবং েকান ৈনিতক কারেণও হেচ না৷ বরং
একিট অেচতন ও অন পকৃিত সমূণর নীিত িববিজরত কাযরকরেণর িভিতেত কখেনা ভােলা ও কখেনা মন িদেনর উদব ঘটােত থােক৷ কােজই ঝড় ঝনঝা ও িবপদ -আপেদর
আবতারণা েথেক েকান ৈনিতক িশকা গহণ করা এবং েকান শভাকাংখীর েদয়া উপেদশ েমেন েনয়া এক ধরেনর মানিসক দবরলতা ছাড়া আর িকছুই নয়৷ নবী সালালাহ
আলাইিহ ওয়া সালাম এ িনেবরাধসূলভ মানিসকতারই নকশা এেকেছন িনেমাক হাদীসিটেত৷
--------------------------------"িবপদ-মুিসবত েতা মুিমনেক পযরায়কেম সংেশাধন করেত থােক, অবেশেষ যখন েস এ চুলী েথেক েবর হেয় তখন তার সমস েভজাল ও খাদ পুেড় েস পিরচন ও খািট হেয়
েবিরেয় আেস৷ িকন মুনািফেকর অবসা হয় িঠক গাধার মেতা৷ েস িকছুই েবােঝ না , তার মািলক েকন তােক েবঁেধ েরেখিছল , আবার েকনইবা তােক েছেড় িদল"৷
কােজই যখন েকান জািতর অবসা এমন পযরােয় েপৌেছ যায় েয, িবপেদও তার হদয় আলাহর সামেন নত হয় না, আলাহর অপিরসীম অনুগেহ ও ধন -সমেদর পাচুেযরও
তার হদেয় কৃতজতােবাধ জােগ না এবং েকান অবসায়ই েস সংেশািধত হয় না৷ তখন ধংস তার মাথার ওপর এমনভােব চকাকাের ঘুরেত থােক েযন তা েয েকান সময়
তার ওপর েনেম আসেব৷ িঠক েযমন সনান ধারেণর সময় পূণর হেয় েগেছ,এমন একজন গভরবতী নারীর েয েকান সময় সনান পসব হেত পাের৷
এখােন আেরা একিট কথা ও েজেন েনয়া উিচত৷ এ আয়াতগেলােত আলাহ িনেজ েয িনয়েমর কথা উেলখ কেরেছন নবী (সা) এর আিবভরাবকােলও িঠক েসই িনয়মিটই
কাযরকর করা হয়৷ ভাগয িবড়িমত জািতগেলার েযসব কমরকােণর িদেক ইংিগত করা হেয়েছ সূরা আরাফ অবতীণর হওয়ার িদনগেলােত মকার কুরাইশরা িঠক েসই একই
ধরেনর কমরকােণর পকাশ ঘিটেয় চলিছল৷আবদলাহ ইবেন মাসউদ (রা)ও আবদলাহ ইবেন আবাস (রা) উভেয়ই একেযােগ েরওয়াত কেরেছন েয, নবী (সা) এর
নবুওয়ােতর লােভর পর যখন কুরাইশরা তঁার দাওয়ােতর িবরেদ চরম উগ মেনাভাব অবলমন করেত শর কের তখন নবী (সা) েদায়া কেরন,েহ আলাহ!ইউসুেফর যুেগ
েযমন সাত বছর দিভরক হেয়িছল েতমিন ধরেনর দিভরেকর সাহােযয এ েলাকেদর েমাকািবলা করার বযাপাের আমােক সাহাযয কেরা৷ ফেল আলাহ তােদরেক ভয়াবহ
দিভরেকর সমুখীন কেরন৷ অবসা এমন পযরােয় েপৌেছ যায় েয, েলােকরা মৃত পানীর েগাশত েখেত শর কের, এমন িক চামড়া, হাড়, ও পশম পযরন েখেয় েফেল৷অবেশেষ
মকার েলােকরা আবু সুিফয়ােনর েনতৃরেতর নবী (সা) এর কােছ তােদর জেনয আলাহর দরবােরর েদায়া করার আেবদন জানায়৷িকন তঁার েদায়ায় আলাহ যখন েসই মহা
সংকট েথেক তােদরেক উদার কেরন, এবংেলােকরা আবার সুিদেনর মুখ েদেখ তখন তােদর বুক অহংকােরর আেগর চাইেত আেরা েবশী সীত হেয় উেঠ৷তােদর মেধয েথেক
েয গিটকয় েলােকর মন নরম হেয় িগেয়িছল দষেলােকরা তােদরেকও এ বেল ঈমােনর পথ েথেক িফিরেয় িনেত থােকঃ আের িময়া!এসব েতা সমেয়র উতান পতন ও কােলর
আবতরন ছাড়া আর িকছুই নয়৷ এর আেগও দিভরক এেসেছ৷ এবােরর দিভরক দীঘর িদন সায়ী হেয়েছ এটা েকান নতুন কথা নয়৷ কােজই এসব বাপাের পতািরত হেয়
মুহামােদর ফঁােদ পা িদেয়া না৷ এ সূরা আরাফ েয সময় নািযল হয় েস সময় মুশিরকরা এ বাগাড়মর কের েবড়ািচল৷ কােজই কুরআন মজীেদর এসব আয়াত অতযন
সমেয়াপেযাগী ও চলিত ঘটনাবলীর সােথ সামঞসযশীল িছল৷এ পটভূিমকার আেলােক এ আয়াতগেলার িনগূঢ় অথর ও তাৎপযর পুেরাপুির অনুধাবন করা েযেত পাের৷ (িবসািরত
জানার জেনয েদখুন ,সূরা ইউনুস ২১ আয়াত , আন নহল ১১২ আয়াত, আল মুিমনূন ৫ও ৭৬, আদ দখান,৯-১৬)৷

‫سكَماِء‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ت ِمك‬
ٍ ‫عَلْيِهكْم َبَرَككا‬
َ ‫حَنككا‬
ْ ‫ل اْلُقَرى َآَمُنوا َواّتَقْوا َلَفَت‬
َ ‫ن َأْه‬
ّ ‫َوَلْو َأ‬
﴾7:96﴿ ‫ن‬
َ ‫سُبو‬
ِ ‫خْذَناُهْم ِبَما َكاُنوا َيْك‬
َ ‫ن َكّذُبوا َفَأ‬
ْ ‫ض َوَلِك‬
ِ ‫لَْر‬
ْ ‫َوا‬
(7:96) Had the people of those towns believed and been God-fearing, We would
certainly have opened up to them blessings from the heavens and the earth; but they
gave the lie [to their Prophets] and so We seized them for their deeds. so.
(৭:৯৬) যিদ জনপেদর েলােকরা ঈমান আনেতা এবং তাকওয়ার নীিত অবলমন করেতা, তাহেল আিম তােদর জনয আকাশ ও পৃিথবীর রবকতসমূেহর
দয়ার খুেল িদতাম৷ িকন তারা েতা তা পতযাখযান কেরেছ৷ কােজই তারা েয অসৎকাজ কের যািচেলা তার জেনয আিম তােদরেক পাকড়াও কেরিছ৷

﴾7:97﴿

َ ‫سَنا َبَياًتا َوُهْم َناِئُمو‬
‫ن‬
ُ ‫ن َيْأِتَيُهْم َبْأ‬
ْ ‫ل اْلُقَرى َأ‬
ُ ‫ن َأْه‬
َ ‫َأَفَأِم‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(7:97) Do the people of those towns feel secure that Our punishment will not come to
them at night while they are asleep?
(৭:৯৭) জনপেদর েলােকরা িক এখন এ বযাপাের িনভরয় হেয় েগেছ েয, আমার শািস কখেনা অকসাত রািতকােল তােদর ওপর এেস পড়েব না, যখন
তারা থাকেব িনদামগ?

﴾7:98﴿

َ ‫حى َوُهْم َيْلَعُبو‬
‫ن‬
ً‫ض‬
ُ ‫سَنا‬
ُ ‫ن َيْأِتَيُهْم َبْأ‬
ْ ‫ل اْلُقَرى َأ‬
ُ ‫ن َأْه‬
َ ِ‫َأَوَأم‬

(7:98) Or, do the people of those towns feel secure that Our punishment will not come to
them by daylight while they are at play?
(৭:৯৮) অথবা তারা িনিশেন হেয় েগেছ েয, আমােদর মজবুত হাত কখেনা িদেনর েবলা তােদর ওপর এেস পড়েব না, যখন তারা েখলা ধুলায় েমেত
থাকেব?

﴾7:99﴿

َ ‫سُرو‬
‫ن‬
ِ ‫خا‬
َ ‫ل اْلَقْوُم اْل‬
ّ ‫ل ِإ‬
ِّ ‫ن َمْكَر ا‬
ُ ‫ل َيْأَم‬
َ ‫ل َف‬
ِّ ‫َأَفَأمُِنوا َمْكَر ا‬

(7:99) Do they feel secure against the design of Allah *78 None can feel secure against
the design of Allah except the utter losers.
*78. The expression makes signifies a secret strategy of which the victim has no inkling until
the decisive blow is struck. Until then, the victim is under the illusion that everything is in good
order.
(৭:৯৯) এরা িক আলাহর েকৌশেলর বযাপাের িনভরীক হেয় েগেছ? ৭৮ অথচ েয সব সমােয়র ধংস অবধািরত তারা ছাড়া আলাহর েকৌশেলর বযাপাের
আর েকউ িনভরীক হয় না৷
৭৮. মূেল------ (মকর) শব বযবহত হেয়েছ৷ আরবীেত এর অথর হেচ, েগাপেন েগাপেন েকান েচষা তদবীর করা৷ অথরাৎ েকান বযিকর িবরেদ এমনভােব গিট চালােনা,
যার ফেল তার ওপর চরম আঘাত না আসা পযরন েস জানেতই পাের না েয, তার ওপর এক মহা িবপদ আসন ৷রবং বাইেরর অবসা েদেখ েস একথাই মেন করেত থােক েয,
সব িকছু িঠকমতই চলেছ৷

‫ص كْبَناُهْم‬
َ ‫شككاُء َأ‬
َ ‫ن َلْو َن‬
ْ ‫ن َبْعِد َأْهِلَها َأ‬
ْ ‫ض ِم‬
َ ‫لْر‬
َْ ‫ن ا‬
َ ‫ن َيِرُثو‬
َ ‫َأَوَلمْ َيْهِد ِلّلِذي‬
﴾7:100﴿ ‫ن‬
َ ‫سَمُعو‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫عَلى ُقُلوِبِهْم َفُهْم‬
َ ‫طَبُع‬
ْ ‫ِبُذُنوِبِهْم َوَن‬
(7:100) Has it not, then, become plain to those who have inherited the earth in the wake
of the former generations that, had We so willed, We could have afflicted them for their
sins, *79 (they, however, are heedless to basic facts and so) We seal their hearts so that
they hear nothing. *80
*79. Every nation, which rises in place of one that falls, can perceive the misdeeds which
brought about the preceding nation's fall. Were such a people to make use of their reason, to
appreciate the false ideas and misdeeds which led to the undoing of those who once strutted
abroad in vainglory, they would have realized that the Supreme Being Who had once punished
them for their misdeeds and deprived them of power and glory had not ceased to exist. Nor has
that Supreme Being been deprived of the power to inflict a punishment on the people of the

present times, a power with which He smote the nations of the past. Nor has God become bereft
of the capacity to dislodge the wicked nations of today in the manner He did in the past.
*80. Those people who derive no lesson from history, who thoughtlessly pass over the ruins of
the past, remaining engrossed in heedlessness, are deprived by God of the capacity to think
correctly and to pay due attention to the counsel of well-wishers. Such is the God-made law of
nature that if someone closes his eyes, not even a single ray of sun-light will reach his sight.
Similarly, if someone is bent upon closing his ears none can make him hear even a word.
(৭:১০০) পৃিথবীর পূবরবতরী অিধবাসীেদর পর যারা তার উতরািধকারী হয়, তারা িক এ বাসবতা েথেক ততটুকুও েশেখিন েয আিম চাইেল তােদর
অপরােধর দরন তােদরেক পাকড়াও করেত পাির৷ ৭৯ (িকন তারা িশকনীয় িবষয়াবলীর বযাপাের অবজা ও অবেহলা পদশরন কের থােক৷) আর আিম
তােদর অনের েমাহর েমের েদই৷ ফেল তার িকছুই েশােন না৷ ৮০
৭৯. অথরাৎ একিট পিতত ও ধংসপাপ সােন অনয েয জািতিটর উতান ঘেট তার জেনয িনেজর পূববর তরী জািতর পতেনর মেধয যেথষ পথিনদরশনা থােক৷ িকছুকাল পূেবর েয
জািতিট এ সােন িবলাস বসেন িলপ িছল এবং যােদর েশষত ও েগৌরেবর ঝাণা এখােন পত পত কের উড়েতা, িচনা ও কেমরর েকান ধরেনর তিট ও ভািন তােদরেক ধংস
কেরেছ, িনেজেদর িবেবক -বুিদর যথাথর বযবহােরর মাধযেম তারা একথা সহেজই অনুধাবন করেত পাের৷তারা এটাও অনুভব করেত পাের, েয উচতর শিক পূববর তরী
জািতেদরেক তােদর অপরােধর কারেণ ইিতপূেবর পাকড়াও কেরিছল এবং তােদরেক এ সান েথেক সিরেয় িদেয় সানিট শূনয কেরিছল েস শিক এখেনা যথা সােন বহাল আেছ
এবং তার কাছ েথেক এ কমতা ও েকউ িছিনেয় েনয়িন েয, এ সােনর পূবরবতরী অিধবাসীরা েয ধরেনর ভুল কের আসিছল েসই ধরেনর ভুল যিদ এ সােনর বতরমান
অিধবাসীরা করেত থােক, তাহেল পূববর তরীেদরেক েযমন এ জায়গা েথেক সিরেয় েদয়া হেয়িছল েতমিন এেদরেক সিরেয় েদয়া েযেত পারেব না৷
৮০. অথরাৎ যখন তারা ইিতহাস েজেন এবং িশকনীয় ধংসসপ পতযক কেরও িশকা গহণ কের না এবং িনেজরাই িনেজেদর েক িবসৃিতর মেধয িনেকপ কের তখন আলাহর
পক েথেক তােদর িচনা করার বুঝার ও েকান উপেদশ দাতার উপেদশ শনার সুেযাগ েমেল না৷ েয বযিক িনেজর েচাখ বন কের েনয়, পখর সূযরােলােকও তার েচাখ আেলা
ছড়ােত পাের না এবং েয বযিক িনেজ শনেত চায় না তােক আর েকউ শনােত পাের না, এিটই আলাহর অেমাঘ পাকৃিতক আইন৷

‫ت َفَما‬
ِ ‫سُلُهْم ِباْلَبّيَنا‬
ُ ‫جاَءْتُهْم ُر‬
َ ْ‫ن َأْنَباِئَها َوَلَقد‬
ْ ‫ك ِم‬
َ ‫عَلْي‬
َ ‫ص‬
ّ ‫ك اْلُقَرى َنُق‬
َ ‫ِتْل‬
ِ‫عَلككى ُقُلككوب‬
َ ‫لك‬
ُّ ‫طَبكُع ا‬
ْ ‫ك َي‬
َ ‫ل َككَذِل‬
ُ ‫ن َقْبك‬
ْ ‫َكككاُنوا ِلُيْؤِمُنككوا ِبَمككا َككّذُبوا ِمك‬
﴾7:101﴿ ‫ن‬
َ ‫اْلَكافِِري‬
(7:101) To those [earlier] communities - some of whose stories We relate to you - there
had indeed come Messengers with clear proofs, but they would not believe what they
had once rejected as false. Thus it is that Allah seals the hearts of those who deny the
truth. *81
*81. The purpose behind the 'sealing of hearts' mentioned in the preceding verse is also
explained in the present verse. It is clear from the two verses that the 'sealing of hearts' means
that man's capacity to hear and understand the truth is seriously, impaired because of the
operation of natural, psychological laws. Because of these laws, once a person turns away from
the truth because of his irrational prejudices and the dominance of lust, he becomes enmeshed
in his own obstinacy and adamancy. With the passage of time this adamancy is compounded to
such an extent that despite all rational and empirical evidence in support of the truth, he
continues to reject it.
(৭:১০১) েযসব জািতর কািহনী আিম েতামােদর শনািচ (যােদর দৃষান েতামােদর সামেন রেয়েছ) তােদর রসূলগণ সুষষ পমাণসহ তােদর কােছ
আেস, িকন েয িজিনসেক তারাএকবার িমথযা বেলিছল তােক আবার েমেন েনবার পাত তারা িছল না৷ েদেখা, এভােব আিম সতয অসীকারকারীেদর

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
িদেল েমাহর েমের েদই৷ ৮১
৮১. আেগর আয়ােত বলা হেয়িছলঃ আিম তােদর িদেল েমাহর েমের েদই, তারপর তারা িকছুই শনেত পায় না- এর বযাখযা আলাহ িনেজই এ আয়াতিটেত কের িদেয়েছন৷এ
বযাখযা েথেক একথা সুষষ হেয় যায় েয, িদেল েমাহর মারার অথর হেচঃ মানিবক বুিদবৃিতর এমন একিট মনসািতক িনয়েমর আওতািধন হেয় যাওয়া যার দৃিষেত একবার
জােহলী িবেদষ বা হীন বযিক সােথরর িভিতেত সতয েথেক মুখ িফিরেয় েনবার পর মানুষ িনেজর িজদ ও হঠকািরতার শৃংখেল এমনভােব আবদ হেয় েযেত থােক েয, তারপর
েকান পকার যুিক-পমাণ পতযক পযরেবকণ ও পরীকা- িনরীকাই সতযেক গহণ করার জেনয তার মেনর দয়ার খুেল েদয় না৷

﴾7:102﴿

‫ن‬
َ ‫سِقي‬
ِ ‫جْدَنا َأْكَثَرُهْم َلَفا‬
َ ‫ن َو‬
ْ ‫عْهٍد َوِإ‬
َ ‫ن‬
ْ ‫لْكَثِرِهْم ِم‬
َِ ‫جْدَنا‬
َ ‫َوَما َو‬

(7:102) We did not find most of them true to their covenants; indeed We found most of
them to he transgressors. *82
*82. The statement that 'We did not find most of them true to their covenants' signifies the
general propensity of people not to honor their commitments. They are neither faithful to the
primordial covenant, which they made with God (see al-A'raf 7: 172), which is binding on
every mortal as God's servant and creature, nor faithful to the collective covenant which is
binding on every human being as a member of the human fraternity. Nor are men generally
faithful to the commitments, which they make to God in hours of distress or in moments when
their moral instincts are awake and astir. Violation of any of these covenants has been termed
fisq (transgression).
(৭:১০২) তােদর অিধকাংেশর মেধয আিম অংগীকার পালেনর মেনাভাব পাইিন৷ বরং অিধকাংশেকই েপেয়িছ ফােসক ও নাফরমান৷ ৮২
৮২. কােরার মেধয অংগীকার পালেনর মেনাভাব পাইিন অথরাৎ েকান ধরেনর অংগীকার পালেনর পােরায়াই তােদর েনই৷ আলাহর পািলত বানা হবার কারেণ জনগতভােব
পেতযকিট মানুষ আলাহর সােথ েয অঙীকাের আবদ, তা পিতপালেনর েকান পেরায়াই তােদর েনই৷তারা সামািজক অংগীকার পালেনরও েকান পেরায়া কের না, মানব
সমােজর একজন সদসয িহেসেব পেতযক বযিক যার সােথ একিট সুদৃঢ় বনেন আবদ অনযিদেক িনেজর িবপদ -আপদ ও দঃখ-কেষর মূহূতরগেলােত অথবা েকান সিদচা ও
মহৎ বাসনা েপাষেনর মূহেতর মানুষ বযিকগতভােব আলাহর সােথ েয অংগীকাের আবদ হয়, তাও তারা পালন কের না৷ এ িতন ধরেনর অংগীকার ভংগ করােক এখােন
ফােসকী বলা হেয়েছ৷

‫ن َوَمَلِئِه َفظََلُمككوا ِبَهككا‬
َ ‫عكْو‬
َ ‫سككى ِبَآَياِتَنككا ِإَلككى ِفْر‬
َ ‫ن َبْعِدِهْم ُمو‬
ْ ‫ُثّم َبعَْثَنا ِم‬
﴾7:103﴿ ‫ن‬
َ ‫سِدي‬
ِ ‫عاِقَبُة اْلُمْف‬
َ ‫ن‬
َ ‫ف َكا‬
َ ‫ظْر َكْي‬
ُ ‫َفاْن‬
(7:103) After those We sent forth Moses with Our signs to Pharaoh and his nobles, *83
but they dealt with Our signs unjustly. *84 Observe, then, what happened to the mischiefmakers?
*83. The stories narrated in the Qur'an bring home unmistakably the point that people who
reject God's Message are not spared; rather they are destroyed. In narrating at length the story
of Moses, Pharaoh and the Israelites, the Qur'an provides some important lessons for the
unbelieving Quraysh, the Jews, and also the believers.

The Quraysh are advised that the apparently large differences in the numerical strength of the
forces of truth and falsehood in the early phase of the Islamic movement should not lead them
to entertain any, kind of illusion. History provides ample testimony that the Message of truth
has always had a very humble beginning. That its proponent, initially, is in the hopelessly small
minority of one; in fact, one in the whole world. He then proceeds, despite his resource lessens,
to challenge the hegemony of falsehood, to declare war against it, despite the fact that
falsehood is backed by powerful states and empires. And ultimately the truth triumphs. The
Quraysh are also reminded that all conspiracies hatched against the Prophets and all the means
employed to suppress the Message of truth are ultimately foiled. They are further told that God
grants long terms of respite to the evil-doing nations so that they might mend their ways and
reform themselves. But when they persistently disregard all warnings and learn no lesson from
instructive events, He smites them with an exemplary punishment.
Some further lessons are meant to be conveyed to those who believed in the Prophet (peace be
on him):
First: That they should not feel disheartened by the paucity of resources, nor is overawed by the
impressive numerical strength, pomp and grandeur of their enemies. Nor should they lose heart
if they find that God's help does not come at the expected hour.
Second: That those who follow in the footsteps of the Jews are bound, ultimately, to be seized
by the same curse which afflicted the Jews.
As for the Israelites, they are warned against the evil effects of clinging to falsehood.
Illustrations of this were provided by important events in their own history. They are also asked
to purge the Message of the earlier Prophets of all accretions and distortions and to restore it to
its original purity.
*84. 'They dealt with Our signs unjustly' refers to their rejection of God's signs and to the fact
that they dismissed them as sheer sorcery. If a person scoffs at a beautiful couplet, and dubs it
as amateurish rhyming, this amounts to committing an offence against poetry itself. Likewise,
to brand those extraordinary acts of God as sorcery and magic - even though magicians
declared that those acts were beyond their ability - constitutes a serious offence not only against
God's signs but also against common sense and truth.
(৭:১০৩) তারপর এ জািতগেলার পর (যােদর কথা ওপের বলা হেয়েছ) আমার িনদশরনসমূহ সহকাের মূসােক পাঠাই েফরাউন ও তার জািতর
পধানেদর কােছ৷ ৮৩ িকন তারাও আমার িনদশরনসমূেহর ওপর জুলুম কের৷ ৮৪ ফলতঃ এ িবপযরয় সৃিষকারীেদর পিরণাম িক হেয়িছল একবার েদেখা৷
৮৩. ওপেরর বিণরত ঘটনাগেলার উেদেশয হেচ একথা ভালভােব মানসপেট েগঁেথ েদয়া েয, েয জািত আলাহর পয়গাম পাওয়ার পর তা পতযাখযান কের, ধংসই তার
অিনবাযর পিরণিত৷ এরপর এখন মূসা ,েফরাউন ও বিন ইসরাঈেলর কািহনী বিণরত হেয়েছ ধারাবািহকভােব কেয়ক রকূ পযরন৷ এর মেধয কুরাইশ বংশীয় কােফর , ইহদী ও
মুিমনেদর েক উপেরাক িবষয়বসিট ছাড়াও আেরা কিতপয় গরতপূণর িশকা েদয়া হেয়েছ৷
এ কািহনীর মাধযেম কুরাইশ বংেশাদুত কােফরেদরেক একথা বুঝাবার েচষা করা হেয়েছ েয, সেতযর দাওয়ােতর পাথিমক সের সতয ও িমথযার শিকর েয অনুপাত বযাহযত

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
েদখা যায় তােত পতািরত না হওয়া উিচত৷সেতযর সমগ ইিতহােসই সাকয েদয় েয, সুচনা িবনুেত তার সংখযা এত কম থােক েয, শরেত সারা দিনয়ার েমাকািবলায় মাত
এক বযিক সেতযর অনুসারী এবং েকান পকার সাজ-সরঞাম ছাড়াই েস িমথযার িবরেদ একাকী যুদ শর কের েদয়৷ এমন এক িমথযার িবরেদ যুদ শর কের েদয় যার
েপছেন রেয়েছ বড় বড় জািত ও রােষর িবপুল শিক৷ তারপরও েশষ পযরন সতযই িবজয় লাভ কের৷ এ ছাড়াও এ কািহনীেত তােদর একথাও জানােনা হেয়েছ েয, সেতযর
আহবায়েকর েমাকােবলায় েযসব েকৌশল অবলমন করা হয় এবং েযসব পনায় তার দাওয়াতেক দািবেয় েদবার েচষা করা হয় তা িকভােব বুেমারাং হেয় যায়৷এ সংেগ
তােদরেক একথাও জানােনা হয় েয, সেতযর দাওয়াত পতযাখযানকারীেদর ধংেসর েশষ িসদান েনয়ার আেগ সবরশিকমাল আলাহ তােদর সংেশািধত হবার ও সিঠক পথ
অবলমন করার জেনয কত দীঘর সময় িদেয় থােকন এবং এরপরও যখন েকান পকার সতকর বাণী , েকান িশকনীয় ঘটনা এবং েকান উজল িনদশরন েথেক তারা িশকা গহণ
কের না ও পভািবত হয় না তখন িতিন তােদরেক েকমন দৃষান মূলক শািস দান কেরন৷
যারা নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর পিত ঈমান এেনিছল এ কািহনীর মাধযেম তােদরেক িদিবধ িশকা েদয়া হেয়েছ৷ এক, িনেজেদর সংখযালতা ও দবরলতা এবং সতয
িবেরাধীেদর িবপুল সংখযা ও শিক েযন তােদরেক িহমাতহারা না কের এবং আলাহর সাহাযয িবলিমত হেত েদেখ েযন তােদর মেনাবল েভংেগ না পেড়৷ দই, ঈমান আনার
পর েয দলই ইহিদেদর মত আচরণ কের তারা অবিশয ইহিদেদর মতই আলাহর লানেতর িশকার হয়৷
বনী ইসরাঈেলর সামেন তােদর িশকানীয় ইিতহাস েপশ কের তােদর েক িমথযার পূজারী সাজার কিতকর পিরণাম েথেক সাবধান করা হেয়েছ৷ তােদরেক এমন এক নবীর
পিত ঈমান আনার দাওয়াত েদয়া হেয়েছ৷ িযিন পূেবরর নবীগেণর পচিলত দীনেক নব রকেমর িমশণ মুক কের আবার তার আসল আকৃিতেত েপশ কেরিছেলন৷
৮৪. "িনদশরনসমূেহর সােথ জুলুম কের"৷ অথরাৎ েসগেলা মােন না এবং যাদকেরর কারসািজ গণয কের েসগেলা এিড়েয় যাবার েচষা কের ৷ েযমন েকান উচাংেগর কিবতােক
কিবতাই নয় বরং তােক দবরল বাকয িবনযাস গণয করা এবং তা িনেয় িবদপ করা েকবল েসই কিবতািটর পিতই নয় বরং সমগ কাবয জগত ও কাবয িচনার পিতই জুলুেমর
নামানর৷ অনুরপভােব েযসব িনদশরন িনেজই আলাহর পক েথেক হবার বযাপাের সুষষ সাকয পমাণ েপশ কের এবং েযগেলার বযাপাের যাদর সাহােযযর এমিন ধরেনর
িনদশরেনর পকাশ ঘটেত পাের বেল েকান িবেবক বুিদ সমন বযিক ধারণাও করেত পাের না বরং যাদ িবদযা িবশারদগণ েযগেলা সমেকর তােদর িবদযার সীমানার আওতায়
অেনক উেধরর বেল সাকয েদয় েসগেলােকও যাদ গণয করা েকবল ঐ িনদশরনগেলার পিতই নয় বরং সুস িবেবক বুিদও ও পকৃত সেতযর পিতও িবরাট জুলুম৷

﴾7:104﴿

َ ‫ب اْلَعاَلِمي‬
‫ن‬
ّ ‫ن َر‬
ْ ‫ل ِم‬
ٌ ‫سو‬
ُ ‫ن ِإّني َر‬
ُ ‫عْو‬
َ ‫سى َيا ِفْر‬
َ ‫ل ُمو‬
َ ‫َوَقا‬

(7:104) And Moses said: '0 Pharaoh! *85 I am a Messenger from the Lord of the universe.
*85. 'Pharaoh' literally means 'the offspring of the sun-god'. The ancient Egyptians called the
sun 'Ra', worshipped it as their supreme deity', and Pharaoh - Ra's physical manifestation and
representative - was named after it. It was for this reason that all Egyptian rulers claimed their
authority on the basis of their association with Ra, and every ruler who mounted the Egyptian
throne called himself Pharaoh, trying thereby to assure his people that he was their supreme
deity.
It may be noted that the Qur'anic narrative regarding Moses refers to two Pharaohs. The first of
these was one during whose reign Moses was born and in whose palace he was brought up. The
second Pharaoh to Worn reference is made is the one whom Moses invited to Islam and who
was asked to liberate the Israelites. It is this latter Pharaoh who was finally drowned. Modern
scholarship is inclined to the view that the first Pharaoh was Rameses 11 who ruled over Egypt
from 1292 B.C. to 1225 B.C. while the second Pharaoh was Minpetah, his son, who had
become a co-sharer in his father's authority during the latter's lifetime and who, after his death,
became the fully-fledged ruler of Egypt. This, however, is not fully established since Moses,
according to the Egyptian calendar, died in 1272 B.C. In any case these are merely historical
conjectures. It is quite difficult to establish a clear chronological framework owing to
discrepancies in the Egyptian, Israeli and Christian calendars.
(৭:১০৪) মূসা বলেলাঃ “েহ েফরাউন! ৮৫ আিম িবশজাহােনর পভুর িনকট েথেক েপিরত৷

৮৫. েফরাউন শেবর অথর "সূযর েদবতার সনান"৷পাচীন কােল িমসরীয়রা সূযরেক তােদর মহােদব বা পধান েদবতা মেন করেতা৷ এ অেথর তারা তােক বলেতা (রাও) েফরাউন
এ রাও এর সােথ সমকরযুক িছল৷ িমসরীয়েদর িবশাস অনুযায়ী েকান শাসনকতরা সাবরেভৌম কমতা ও কতৃরেতর অিধকারী হেত হেল তােক রাও এর শারীিরক অবতার এবং
তার দিনয়াবী পিতিনিধ হওয়া অপিরহাযর িছল৷ এ জেনযই যতগেলা রাজ পিরবার িমসেরর শাসন কমতায় অিধিষত হেয়েছ তােদর পেতযেকই িনেজেক সূযর বংশীয় িহেসেব
েপশ কেরেছ৷ শাসন কমতায় অিধিষত হবার পর পেতযকিট শাসক িনেজেদর জেনয েফরাউন (ফারাও) উপাধী গহণ কের েদশবাসীর সামেন একথা পিতপন করার েচষা
কেরেছ েয, আিম ই েতামােদর পধান রব বা মহােদব৷
এখােনও একথািটও মেন রাখেত হেব েয, কুরআন মজীেদ হযরত মূসার ঘটনা বণরানা পসংেগ দজন েফরাউেনর কথা বলা হেয়েছ৷ একজন েফরাউেনর আমেল িতিন জন
গহণ কেরন এবং তার গৃেহ পিতপািলত হন৷ আর িদতীয় জেনর কােছ িতিন ইসলােমর দাওয়াত ও বনী ইসরাঈেলর মুিকর দাবী িনেয় উপিসত হন এবং এ িদতীয় েফরাউনই
অবেশেষ জলমগ হয়৷বতরমান যুেগর গেবষকেদর অিধকাংেশর মেত পথম েফরাউন িছল িদতীয় রােমসাস৷ তার শাসকােল িছল ১২৯২ েথেক ১২২৫ খৃষপূবরাদ৷ িপতা িদতীয়
রােমসােসর জীবনকােলই েস শাসন কতৃরেতর অংশগহন কের এবং িপতার মুতুযর পর পুেরাপুির রাষ কমতার অিধকারী হয়৷ এ ধারণা বাহযত সেনহযুক মেন হেচ৷ কারণ
ইসরাঈলী ইিতহােসর িহেসব অনুযায়ী হযরত মূসা (আ) ইিনকাল কেরন ১২৭২ খৃসাপূবরােব৷ তবুও যা েহাক আমােদর মেন রাখেত হেব,এগেলা েনহাত ঐিতহািসক ধারণা
ও আনজ অনুমান আর িমসরীয় , ইসরাঈলী ও খৃসীয় পিঞকার সাহােযয এেকবাের িনভুরল সময়কােলর িহেসব করা কিঠন৷

‫ن َرّبُك كْم‬
ْ ‫جْئُتُكْم ِبَبّيَنٍة ِم ك‬
ِ ‫ق َقْد‬
ّ‫ح‬
َ ‫ل اْل‬
ّ ‫ل ِإ‬
ِّ ‫عَلى ا‬
َ ‫ل‬
َ ‫ل َأُقو‬
َ ‫ن‬
ْ ‫عَلى َأ‬
َ ‫ق‬
ٌ ‫حِقي‬
َ
﴾7:105﴿ ‫ل‬
َ ‫سَراِئي‬
ْ ‫ي َبِني ِإ‬
َ ‫ل َمِع‬
ْ‫س‬
ِ ‫َفَأْر‬
(7:105) And it behooves me to say nothing about Allah except what is true. I have come
to you with a clear sign of having been sent from your Lord. So let the Children of Israel
go with me.' *86
*86. Moses was sent to Pharaoh to invite him to two things; first, to surrender himself to God
(i.e. Islam); and second, to release the Israelites - who were already Muslims - from his
oppressive bondage. The Qur'an refers occasionally to both these objectives, and occasionally
confines itself to mentioning either of the two.
(৭:১০৫) আমার দািয়তই হেচ, আলাহর নােম সতয ছাড়া আর িকছুই বলেবা না৷ আিম েতামােদর রেবর পক েথেক িনযুিকর সুষষ পমাণসহ
এেসিছ৷ কােজই তুিম বনী ইসরাঈলেক আমার সােথ পািঠেয় দাও৷”৮৬
৮৬. হযরত মূসা আলাইিহস সালামেক দিট িজিনেসর দাওয়াত সহকাের েফরাউেনর কােছ পাঠােনা হেয়িছল ৷ এক, আলাহ বেনগী তথা ইসলাম গহণ কেরা৷ দই, বনী
ইসরাঈল সমদায় , যারা আেগ েথেকই মুসলমান িছল, তােদর পিত জুলুম -িনযরাতন বন কের তােদরেক মুক কের দাও৷ কুরআেনর েকাথাও এ দিট দাওয়ােতর উেলখ করা
হেয়েছ এক সােথ আবার েকাথাও সান-কাল িবেশষ আলাদা আলাদা ভােব এেদর উেলখ এেসেছ৷

﴾7:106﴿

َ ‫صاِدِقي‬
‫ن‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ت ِم‬
َ ‫ن ُكْن‬
ْ ‫ت ِبَها ِإ‬
ِ ‫ت ِبَآَيٍة َفْأ‬
َ ‫جْئ‬
ِ ‫ت‬
َ ‫ن ُكْن‬
ْ ‫ل ِإ‬
َ ‫َقا‬

(7:106) Pharaoh said: if you have brought a sign, then bring it forth if you are truthful.'
(৭:১০৬) েফরাউন বলেলাঃ “তুিম যিদ েকান পমাণ এেন থােকা এবং িনেজর দাবীর বযাপাের সতযবাদী হও, তাহেল তা েপশ কেরা৷”

﴾7:107﴿

ٌ ‫ن ُمِبي‬
‫ن‬
ٌ ‫ي ُثْعَبا‬
َ ‫صاُه َفِإَذا ِه‬
َ ‫ع‬
َ ‫َفَأْلَقى‬

(7:107) Thereupon Moses threw his rod, and suddenly it was a veritable serpent.
(৭:১০৭) মূসা িনেজর লািঠিট ছুেড় িদল৷ অমিন তা একিট জলজযান অজগেরর রপ ধারণ করেলা৷

﴾7:108﴿

َ ‫ظِري‬
‫ن‬
ِ ‫ضاُء ِللّنا‬
َ ‫ي َبْي‬
َ ‫ع َيَدُه َفِإَذا ِه‬
َ ‫َوَنَز‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(7:108) Then he drew out his hand, and it appeared luminous to all beholders. *87
*87. Moses was granted these two miraculous signs in order to provide testimony to his being a
Messenger of God, the creator and sovereign of the universe. As we have mentioned earlier,
whenever the Prophets introduced themselves as God's Message-bearers, people asked them to
produce some miraculous sign, to perform something supernatural. In response to those
demands the Prophets produced what the Qur'an terms as 'signs', and which do theologians call
‘miracles’.
Those who tend to play down the supernatural character of such signs or miracles, and who try
to explain them in terms of natural laws of causation, in fact attempt to build a mid-way house
between believing and disbelieving in the statements of the Qur'an. Such an approach can
hardly be considered reasonable. What it does demonstrate, however, is how such people can
be pulled in two opposite directions. On the one hand, they are not inclined to believe in a
Book, which abounds in narrations of a supernatural kind. On the other hand, being born
followers of their ancestral religion, they are not inclined to reject the Book, which carries
supernatural narrations.
With regard to miracles, there are two basic questions that people should ask themselves. Did
God, after creating the universe and establishing a system of natural causations therein, suspend
Himself such that it is no longer possible for Him to interfere in the workings of the universe?
Or does He still hold the reins to His realm in His owns Hands so that His command is enforced
every moment, and He does retain the power to alter the shape of things and the normal course
of events - either partially or fully, - as and when He wills?
It is impossible for those who respond in the affirmative to the first question to accept the idea
of miracles. For clearly miracles do not fit in with their concept of God and the universe.
Honesty demands that instead of indulging in far-fetched explanations of Qur'anic statements
on miracles, such people should clearly declare that they do not believe in the Qur'an. For quite
obviously the Qur'an is explicit, even quite emphatic in affirming the former concept of God.
As for those who, being convinced by Qur'anic arguments, respond in the affirmative to the
second question regarding God and the universe, for them there is no difficulty in accepting
miracles. Let us take the instance mentioned in verse 107, namely, that the rod of Moses turned
into a serpent. Now, there are those who believe that serpents can come into being only through
one process - the known biological process. Such people are bound to reject the statement that
Moses' rod changed into a serpent and later reverted to its original shape. On the contrary, if
you are fully convinced that it is God's command alone which causes life to arise from lifeless

matter, and that God has full power to confer whichever kind of life He wills, the
transformation of the rod into a serpent and its subsequent reversion to its original state is no
stranger than the transformation of any other lifeless matter into a living entity. The fact that the
latter happens virtually every day whereas the former took place only a few times in history is
not enough to declare the first as incredibly, strange and the second as 'natural'.
(৭:১০৮) েস িনেজর হাত েবর করেলা তৎকণাত েদখা েগেলা েসিট দশরকেদর সামেন চমকােচ৷ ৮৭
৮৭. হযরত মূসা েয িবশ জাহােনর শাসক ও সবরময় কতৃরতশালী আলাহর পিতিনিধ, একথার পমাণ সরপ এ দিট িনদশরন তােক েদয়া হেয়িছল৷ ইিতপূেবরও আিম বেলিছ েয,
নবী রসূলগণ যখনই িনেজেদরেক রবুল আলামীেনর েপিরত িহেসেব েপশ কেরেছন তখনই েলাকেদর পক েথেক এ দাবীই জানােনা হেয়েছ েয, সতযই যিদ তুিম রবুল
আলামীেনর পিতিণিধ হেয় থােকা তাহেল েতামার মাধযেম এমন িকছু ঘটনার পকাশ হওয়া দরকার, যােত পাকৃিতক আইেনর সাধারণ নীিতমালার বযিতকম ঘেট এবং যার
েথেক সুষষভােব একথা পকাশ হয় েয, িবশপভূ েতামার সতযতা পমাণ করার জেনয িনেজর পতযক হসেকেপর মাধযেম িনদশরন িহেসেব এ ঘটনা ঘিটেয়েছন৷ এ দাবীর
েপিকেত নবীগণ িবিভন িনদশরন েদিখেয়েছন, যােক কুরআেনর পিরভাষায় আয়াত ও কালাম শাসিবদেদর পিরভাষায় মুিজযা বলা হেয় থােক৷ এ ধরেনর মুিজযােক যারা
পাকৃিতক আইেনর অধীেন উদুত সাধারণ ঘটনা গণয করার েচষা কের তারা আসেল আলাহর িকতাবেক মানার ও না মানার মাঝামািঝ এমন একিট ভূিমকা গহণ কের,
যােক েকানকেমই যুিকসংগত মেন করা েযেত পাের না৷ কারণ কুরআন েযখােন দযথরহীন পাকৃিতক আইন িবেরাধী ঘটনা উেলখ করেছ েসখােন পূবরাপর আেলাচনার সমূণর
িবরদাচারণ কের তােক একিট সাধারণ ঘটনা িহেসেব িচিতত করার পেচষা চালােনা িনছক একিট উদট বাগাড়মর ছাড়া আর িকছুই নয়৷ এর পেয়াজন হয় একমাত এমন
ধরেনর েলাকেদর যারা একিদেক পাকৃিতক আইন িবেরাধী ঘটনার উেলখকারী েকান িকতােবর পিত ঈমান আনেত চায় না আবার অনযিদেক জনগতভােব ৈপতৃক ধেমরর পিত
িবশাস সাপন করার কারেণ এমন একিট িকতাবেক অসীকার করেত চায় না৷ যােত পাকৃিতক আইন িবেরাধী ঘটনার উেলখ করা হেয়েছ৷
মুিজযার বযাপাের আসল ও চূড়ান িসদানকর পশ েকবল একিটই এবং েসিট হেচ, এই েয, মহান সবরশিকমান আলাহ সমগ িবশ বযবসােক একই আইেনর িভিতেত সচল
কের েদবার পর িক িনেজ সিবর হেয় বেস পেড়েছন এবং বতরমােন িবশ জাহােনর বযবসাপনায় কখেনা েকান পকার হসেকপ করেত পােরন না? অথবা িতিন কাযরত িনেজর
সামােজযর যাবতীয় বযবসাপনা িনেজর কতৃরতাধীেন েরেখেছন , পিত মুহূেতর এ িবশ রােজয তার িবধান জাির হেচ এবং সবরকণ িতিন সকল বসর আকৃিত পকৃিতেত এবং
ঘটনাবলী সাভািবক গিতধারায় আংিশক বা সমূণরভােব েযভােব এবং যখন চান পিরবতরন কেরন? এরই পেশর জওয়ােব যারা পথম মতিট েপাষণ কেরন তােদর পেক
মুিজযার সীকৃিত েদয়া অসমব৷ কারণ আলাহ সমেকর তারা েয ধারণা েপাষণ কেরন তার সােথ মুিজযা খাপ খায় না৷ এবং িবশ জাহােনর বযাপাের তােদর েয ধারণা তার সােথ
ও না৷ এ ধরেনর েলাকেদর পেক কুরআেনর বযাখযা িবেশষণ করার পিরবেতর পিরষারভােব কুরআন অসীকার করাই সংগত মেন হয়৷ কারণ কুরআন েতা আলাহ সমিকরত
পথেমাক ধারণািটেক িমথযা ও েশেষাক ধারণািটেক সতয বেল পিতিষত করার জেনযই িনেজর বণরনা ও িবেশষণ কমতা বযয় কেরেছ৷ অনযিদেক েয বযিক কুরআেনর
উপসািপত যুিক পমােণ িনিশেন হেয় েশেষাক মতিট গহণ কেরন তার জেনয মুিজযার তাৎপযর ও সরপ অনুধাবন করা এবং তােক সীকার কের েনয়া েমােটই কিঠন হয়
না৷েসাজা কথায় বলা যায়, েকউ যিদ িবশাস কের অজগর সােপর জন েযভােব হেচ েকবলমাত েসভােবই তার জন হেত পাের,অনয েকান পনায় তােক জন েদবার কমতা
আলাহর েনই, তাহেল েস একিট লািঠ অজগের পিরণত হেয়েছ বা অজগর লািঠেত রপানিরত হেয়েছ , এ মেমর েকউ খবর িদেল তা িবশাস করেত পারেব না! পকানের েয
বযিক এ িবশাস েপাষণ কের েয, িনষাণ বসর মেধয আলাহর হকুেম পাণ সঞিরত হয় এবং েয বসেক আলাহ েযভােব চান জীবন দান করেত পােরন,তার কােছ আলাহর
হকুেম লািঠর অজগের রপানিরত হেয় যাওয়া িঠক েতমিন সাভািবক সতয বযাপার েযমন েসই একই আলাহর হকুেম িডেমর মেধয কিতপয় পাণহীন উপাদােনর অজগের
পিরণত হওয়া৷একিট ঘটনা সবসময় ঘেট চলেছ এবং অনযিট মাত িতনবার ঘেটেছ, শধু মাত এতটুকু পাথরেকযর জেনয একিট ঘটনােক সাভািবক ও অনযিটেক অসাভািবক
বলা চেল না৷

﴾7:109﴿

‫عِليٌم‬
َ ‫حٌر‬
ِ ‫سا‬
َ ‫ن َهَذا َل‬
ّ ‫ن ِإ‬
َ ‫عْو‬
َ ‫ن َقْوِم ِفْر‬
ْ ‫ل ِم‬
َُ ‫ل اْلَم‬
َ ‫َقا‬

(7:109) The elders of Pharaoh's people said: 'Surely this man is a skillful magician
(৭:১০৯) এ দৃশয েদেখ েফরাউেনর সমদােয়র পধানরা পরষরেক বলেলাঃ িনশয়ই এ বযিক একজন অতযন দক যাদকর,

﴾7:110﴿

َ ‫ضُكْم َفَماَذا َتْأُمُرو‬
‫ن‬
ِ ‫ن َأْر‬
ْ ‫جُكْم ِم‬
َ ‫خِر‬
ْ ‫ن ُي‬
ْ ‫ُيِريُد َأ‬

(7:110) who seeks to drive you out from your land. *88 What would you have us do?'
*88. The above account raises the question as to how a destitute member of the slave Israeli
nation could pose such a serious threat to an emperor as mighty as Pharaoh. This is especially
so when one considers that Pharaoh was not only an absolute ruler over territory which
stretched in one direction from Syria to Libya and in the other from the Mediterranean coast to
Ethiopia, but was even considered a deity deserving of worship.
One might also wonder how the transformation of Moses' rod into a serpent could he

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

considered an event of such magnitude as to give rise to the fear that Moses would overthrow
the entrenched empire and unseat the royal family as well as the entire ruling class. It might
further seem strange that the mere declaration of prophethood and the demand to liberate the
people of Israel caused such a furor even though no other political question had been touched
upon.
The answer here lies in the fact that Moses' claim to prophethood implied the call to total
change, obviously, including political change. For if a person lays claim to be God's
Messenger, it implies that people obey him unreservedly. For God's Messengers are not sent to
the world to obey other human beings and live in subordination to them; they rather ask others
to accept them as their leaders and rulers. It is this which explains why Pharaoh and his coteric
felt threatened by an all-out revolution -political, economic and social - when Moses came forth
with his call.
There remains the question as to why the claim to prophethood was considered such a potential
threat when Moses enjoyed the support of none except his brother, Aaron, and his claim was
reinforced by only two miracles - those of the shining hand and the rod which turned into a
serpent. Two things can explain this. First, that Pharaoh and his courtiers knew very well about
Moses. All were aware of his extraordinary abilities and his inherent caliber as a leader of men.
Also, according to the traditions of the Talmud and Josephus - provided they are authentic
-Moses had also learnt the martial arts and other skills which were available only exclusively to
royalty and which were required in connection with their political and military leadership.
Moreover, he had proved his mettle as a good general during the expedition to Ethiopia.
Furthermore, during the course of his eight years of life in Median - rigorous years in the desert
working as a shepherd - he had purged himself of all his weaknesses because of his association
with the Paranoiac system. Hence when a mature, serene and pious man who came forth with
the claim of prophethood confronted the Paranoiac court, it was obviously impossible for them
to give short shrift to his claim. Second, the miracles of the rod and the shining hand overawed
Pharaoh and his courtiers to such an extent they were almost convinced that Moses did indeed
enjoy the support of some supernatural power. That they were unnerved by the very first proof
of his prophethood is borne out by the contradictions in their charges against Moses. On the one
hand they dubbed Moses a sorcerer, and on the other hand they accused him of plotting to
banish them from their own land. It is clear that had they taken Moses for a mere sorcerer, they
would not have expressed fears of political upheaval. For sorcery has never brought about any
political change in the world.
(৭:১১০) েতামােদরেক েতামােদর েদশ েথেক েব-দখল করেত চায়৷ ৮৮ এখন েতামরা িক বলেব বেলা?
৮৮. এখােন পশ েদখা েদয় েয, একিট পরাধীন জািতর এক সহায় -সমলহীন বযিক যিদ হিঠৎ একিদন েফরাউেনর মত মহা পরাকান বাদশাহর কােছ চেল যান৷ িসিরয়া
েথেক িলিবয়া পযরন এবং ভুমধযসাগেরর উপকূল েথেক ইিথেয়ািপয়া পযরন িবশাল ভূভােগর ওপর যার একচত আিধপতয িবসৃত , অিধকন েস িনেজেক জনগেণর ঘােড়র

ওপর েদবতা িহেসেবও সওয়ার হেয় আেছ৷ তাহেল িনছক তার একিট লািঠেক অজগের পিরণত কের েদয়ার কাজিট েকমন কের এত বড় একিট সামাজযেক আতংিকত কের
েতােল৷ িকভােবই বা এ ধারণা সৃিষ হয় েয,এ ধরেনর একজন মানুষ একাকীই িমসর রাজােক িসংহাসনচুযত কের েদেবন এবং শাসক সমদায়সহ সমগ রাজ পিরবারেক রাষ
কমতা েথেক উৎখাত কের েদেবন?তারপর ঐ বযিক যখন েকবলমাত নবুওয়ােতর দাবী এবং বনী ইসরাঈলেক মুিক েদবার দাবী উতাপন কেরিছেলন আর এ ছাড়া অনয
েকান পকার রাজৈনিতক আেলাচনাই কেরনিন তখন এ রাজৈনিতক িবপেবর আশংকা েদখা িদেয়িছল েকমন কের?
এ পেশর জবাব হেচ, মূসা আলাইিহস সালােমর নবুওয়ােতর দাবীর মেধযই এ তাৎপযর িনিহত িছল েয, িতিন আসেল েগাটা জীবন বযবসােক সামগীক ভােব পিরবিতরত
করেত চান৷ েদেশর রাজৈনিতক বযবসাও িনিশতভােব এর অনভুরক৷ েকান বযিকর িনেজেক িবশ পভু আলাহর পিতিনিধ িহেসেব উপসাপন করার অবশযমাবী পিরণিত এ
দঁাড়ায় েয, িতিন মানুেষর কােছ িনেজর পিত পূণর আনুগেতযর দাবী জানােচ৷ কারণ রবুল আলামীেনর পিতিনিধ কখেনা অেনযর আনুগত ও অেনযর পজা হেয় থাকেত আেস
না৷বরং িতিন আেসন অনযেক ও পজায় পিরণত করেত৷ েকান কােফেরর শাসনািধকার েমেন েনয়া তার িরসালােতর মযরাদার সমূণর পিরপনী৷ এ কারেণই হযরত মূসার মুখ
েথেক িরসালােতর দাবী শনার সােথ সােথই েফরাউন ও তার রাষ পিরচালকবেগরর মেন রাজৈনিতক, অথরৈনিতক, ও সাংসৃিতক পিরবতরেনর আশংকা েদখা েদয়৷ তেব হযরত
মূসা আলাইিহস সালােমর সােথ যখন তার এক ভাই ছাড়া আর েকান সাহাযযকারী িছল না এবং েকবল মাত একিট সেপর রপানিরত হবার কমতা সমন লািঠ ও একটাই
ঔজলয িবকীরণকারী হাত ছাড়া তঁার রসূল িহেসেব িনযুিকর আর েকান পমাণ িছল না তখন িমসেরর রাজ দরবাের তঁার এ দাবীেক এত গরত েদয়া হেলা েক? আমার মেত
এর দিট বড় বড় কারণ রেয়েছ৷এক, হযরত মূসা আলাইিহস সালােমর বযিকেতর বযাপাের েফরাউন ও তার সভাসদরা পুেরাপুির অবগত িছল৷ তার পিবত -পিরচন ও
অনমনীয় চিরত৷ তঁার অসাধারণ পিতভা ও েযাগযতা এবং জনগত েনতৃত ও শাসন কমতার কথা তােদর সবার জানা িছল৷তালমূদ ও ইউসীফূেসর বণরনা যিদ সিঠক হেয়
থােক তাহেল বলেত হয়, হযরত মূসা (আ) এসব জনগত েযাগযতা ছাড়াও েফরাউেনর গৃেহ লাভ কেরিছেলন িবিভন জাগিতক িবদযা, েদশ শাসন ও সমর িবধযায়
পারদিশরতা৷ রাজপিরবােরর সদসযেদর এসব িশকা েদয়ার েরওয়াজ িছল৷ তাছাড়া েফরাউেনর গৃেহ যুবরাজ িহেসেব অবসান করার সময় আিবিসিনয়ার সামিরক অিভযােন
িগেয়ও িতিন িনেজেক একজন েসনাপিত পমাণ করেত সকত হেয়িছেলন৷ তদপির রাজ পসােদ জীবন যাপন এবং েফরাউনী রাষ বযবসার আওতাধীেন িনবরাহী কতৃরেতর
আসেন বসার কারেণ েয সামানয পিরমাণ দবরলতা তঁার মেধয সৃিস হেয় িগেয়িছল৷তাও মাদােয়ন এলাকায় আট দশ বছর মরচারী জীবন যাপন ও ছাগল চরাবার কেঠার
দািয়ত পালেনর করেণ দূর হেয় িগেয়িছল৷ কােজই আজ িযিন েফরাউেনর দরবাের দনায়মান, িতিন আসেল এক বয়স , িবচকণ ও েতেজাদীপ দরেবেশ সমাট৷ িতিন
নবুওয়ােতর দাবীদার িহেসেব তার সমােন উপিসত৷ এরপ বযিকর কথােক হাওয়াই ফানুস মেন কের উিড়েয় েদয়া সমব িছল না৷ এর িদতীয় কারণিট িছল এই েয, লািঠ ও
েশতহেসর মুিজযা েদেখ েফরাউন ও তার সভাসদরা অতযন অিভভূত, িবচিলত ও ভীত হেয় পেড়িছল৷ তােদর পায় িনিশত িবশাস জেন িগেয়িছল েয, এ বযিকর েপছেন
িনশয়ই েকান অিতপাকৃিতক শিকর সহায়তা রেয়েছ৷তােদর একিদেক হযরত মূসােক যাদকর বলা আবার অনযিদেক িতিন তােদরেক এ েদেশর শাসন কতৃরত েথেক উৎখাত
করেত চান বেল আশংকা পকাশ করা- এ দিট িবষয় পরষেরর িবপরীত ৷ আসেল নবুওয়ােতর পথম পকাশ তােদরেক িকংকতরবয িবমূঢ় কের িদেয়িছল৷তােদর উেলিখত
মেনাভাব, বকবয ও কাযরকম তারই পমাণ৷ সতযই যিদ তারা হযরত মূসােক যাদকর মেন করেতা, তাহেল িতিন েকান রাজৈনিতক িবপব ঘটােবন এ আশংকা তারা কখেনা
করেতা না৷ কারণ যাদর েজাের আর যাই েহাক- দিনয়ার েকাথাও কখেনা েকান রাজৈনিতক িবপব সািধত হয়িন৷

﴾7:111﴿

َ ‫شِري‬
‫ن‬
ِ ‫حا‬
َ ‫ن‬
ِ ‫ل ِفي اْلَمَداِئ‬
ْ‫س‬
ِ ‫خاُه َوَأْر‬
َ ‫جْه َوَأ‬
ِ ‫َقاُلوا َأْر‬

(7:111) Then they advised Pharaoh: 'Put off Moses and his brother for a while, and send
forth heralds to your cities
(৭:১১১) তখন তারা সবাই েফরউনেক পরামশর িদেলা, তােক ও তার ভাইেক অেপকারত রাখুন এবং নগের নগের সংগাহক পাঠান৷

﴾7:112﴿

‫عِليٍم‬
َ ‫حٍر‬
ِ ‫سا‬
َ ‫ل‬
ّ ‫ك ِبُك‬
َ ‫َيْأُتو‬

(7:112) to summon every skilful magician to your presence.' *89
*89. The plan of Pharaoh's courtiers clearly suggests that they knew the difference between
mere sorcery and a miracle. They were well aware that miracles are effective and have the
capacity to bring about actual transformation whereas sorcery results merely in optic illusion.
Hence, they dubbed Moses a sorcerer so as to refute his claim to prophethood. They claimed
instead that the transformation of the rod into a serpent was not a miracle; that it was rather a
magical performance which could be undertaken by any sorcerer. Therefore, they asked all the
sorcerers of the land to come together and display how rods could be magically transformed
into serpents. They believed that such a magical show would remove the awesome effect
created by Moses' miracles on the people, or at least sow doubts in their minds about those
miracles.
(৭:১১২) তারা পেতযক সুদক যাদকরেক আপনার কােছ িনেয় আসেব৷ ৮৯
৮৯. েফরাউেনর সভাসদেদর এ বকবয েথেক সুষষ ভােব একথা জানা যায় েয, আলাহর িনদশরন ও যাদর মধযকার পাথরকয তােদর কােছ এেকবােরই পািনর মত পিরষার
িছল৷ তারা জানেতা, আলাহর িনদশরেনর সাহােযয পকৃত ও সিতযকার পিরবতরন অনুিষত হয়৷ আর যাদ িনছক দৃিষশিক ও মনেক পভািবত কের বসর মেধয একিট িবেশষ

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
ধরেনর পিরবতরন অনুভব করায়৷ তাই তারা হযরত মূসার িরসালােতর দাবী পতযাখযান করার জেনয বেল, এ বযিক যাদকর৷ অথরাৎ লািঠ আসেল সােপ পিরণত হয়িন, কােজই
তােক আলাহর িনদশরন বেল েমেন েনয়া যােব না৷ বরং েসিট েযন সােপর মত বেল আমােদর দৃিষেত পিতভাত হেয়েছ৷পেতযক যাদকর এভােবই তার েতেলসমািত েদিখেয়
থােক৷ তরপর তারা পরামশর েদয়, সারা েদেশর েশষ দক যাদকরেদরেক একত করা েহাক এবং তােদর 'যাদকরী শিক'র মাধযেম লািঠ ও রিশেক সােপ পিরণত কের
েলাকেদর েদখােনা েহাক৷ এর ফেল নবী সূলভ এ মুিজযা েদেখ সাধারণ েলাকেদর মেন েয উচতর ধারণার সৃিষ হেয়েছ তা পুেরাপুির দূর না হেলও কমপেক সেনহ
রপানিরত করা যােব৷

﴿

َ ‫ن اْلَغككاِلِبي‬
‫ن‬
ُ ‫حك‬
ْ ‫ن ُكّنككا َن‬
ْ ‫جكًرا ِإ‬
ْ‫ل‬
َ ‫ن َلَنككا‬
ّ ‫ن َقككاُلوا ِإ‬
َ ‫عْو‬
َ ‫حَرُة ِفْر‬
َ‫س‬
ّ ‫جاَء ال‬
َ ‫َو‬
﴾7:113

(7:113) And the magicians came to Pharaoh and said: 'Shall we have a reward if we
win?'
(৭:১১৩) অবেশেষ যাদকেররা েফরাউেনর কােছ এেলা৷ তারা বলেলাঃ “যিদ আমরা িবজয়ী হই, তাহেল অবিশয এর পিতদান পােবা েতা? ”

﴾7:114﴿

َ ‫ن اْلُمَقّرِبي‬
‫ن‬
َ ‫ل َنَعْم َوِإّنُكْم َلِم‬
َ ‫َقا‬

(7:114) Pharaoh replied: 'Certainly, and you shall be among those who are near to me.'
(৭:১১৪) েফরাউন জবাব িদেলাঃ “হঁা তাছাড়া েতামরা আমার দরবােরর ঘিনষ জেনও পিরণত হেব৷”

﴾7:115﴿

َ ‫ن اْلُمْلِقي‬
‫ن‬
ُ‫ح‬
ْ ‫ن َن‬
َ ‫ن َنُكو‬
ْ ‫ي َوِإّما َأ‬
َ ‫ن ُتْلِق‬
ْ ‫سى ِإّما َأ‬
َ ‫َقاُلوا َيا ُمو‬

(7:115) Then they said: '0 Moses, will you [first] throw your rod, or shall we throw?'
(৭:১১৫) তখন তারা মূসােক বলেলাঃ “তুিম ছুড়ঁেব না, না আমরা ছুঁড়েবা? ”

‫جككاُءو‬
َ ‫سكَتْرَهُبوُهْم َو‬
ْ ‫س َوا‬
ِ ‫ن الّنككا‬
َ ‫عُيك‬
ْ ‫حُروا َأ‬
َ ‫سك‬
َ ‫ل َأْلُقككوا َفَلّمككا َأْلَقكْوا‬
َ ‫َقككا‬
﴾7:116﴿ ‫م‬
ٍ ‫ظي‬
ِ‫ع‬
َ ‫سحٍْر‬
ِ ‫ِب‬
(7:116) Moses said: 'You throw.' So when they threw [their rods], they enchanted the
eyes of the people, and struck them with awe, and produced a mighty sorcery.
(৭:১১৬) মূসা জবাব িদেলাঃ “েতামরাই েছঁােড়া৷” তারা যখনই িনেজেদর যাদর বাণ ছুঁড়েলা তখনই তা েলাকেদর েচােখ যাদ করেলা, মেন আতংক
ছড়ােলা এবং তারা বড়ই জবরদস যাদ েদখােলা৷

﴿

َ ‫ف َمككا َيكْأِفُكو‬
‫ن‬
ُ ‫ي َتْلَقك‬
َ ‫ك فَكِإَذا ِهك‬
َ ‫صككا‬
َ ‫ع‬
َ ‫ق‬
ِ ‫ن َأْلك‬
ْ ‫سى َأ‬
َ ‫حْيَنا ِإَلى ُمو‬
َ ‫َوَأْو‬
﴾7:117

(7:117) Then We directed Moses: 'Now you throw your rod.' And lo! it swallowed up all

their false devices. *90
*90. It would be a mistake to believe that the rod of Moses swallowed up the rods and ropes
cast by the other sorcerers and which had looked like serpents. The Qur'anic statement means
that the rod of Moses swallowed up the falsehood faked by them. This clearly shows that
wherever Moses' rod moved, it destroyed the magical effect which had caused the
transformation of their ropes and rods. One blow of Moses' rod caused every other rod to revert
to a rod, and every rope to revert to a rope. (For further elaboration see Tafhim al-Qur'an, Ta
Ha 20, n. 42)
(৭:১১৭) মূসােক আিম ইংিগত করলাম, েতামর লািঠটা ছুঁেড় দাও৷ তার লািঠ েছঁাড়ার সােথ সােথই তা এক িনিমেষই তােদর িমথযা যাদ কমরগেলােক
িগেল েফলেত লাগেলা৷ ৯০
৯০. যাদকেররা েযসব রিশ ও লািঠ ছুঁেড় েফলার পর েসগেলা িবিভন পকােরর সাপ ও অজগেরর মত েদখািচল হযরত মূসার লািঠ েসগেলােক িগেল েখেয় েফেলিছল , এ
ধারণা করা িঠক হেব না৷ কুরআন এখােন যা িকছু বলেছ তা হেচ, এই েয, হযরত মূসার লািঠ সােপ পিরণত হেয় তােদর যাদর পতারণা জাল িছন করেত শর কের৷ অথরাৎ
এ সাপ েযিদেক েগেছ েসিদেকই তােদর যাদর পভােব েযসব লািঠ ও রিশ সােপর মত েহেলদেল নড়াচড়া করেত েদখা যািচল তােদর সব পভাব খতম কের িদেয়েছ এবং
তার একিট মাত চকের যাদকরেদর পেতযক সপর অবয়বধারী লািঠ ও রিশ সংেগ সংেগই আেগর মত লািঠ ও রিশেত পিরণত হেয় েগেছ৷ (অিধক বযাখযার জেনয েদখুন সূরা
তা-হা , টীকা ৪২)

﴾7:118﴿

َ ‫ل َما َكاُنوا َيْعَمُلو‬
‫ن‬
َ‫ط‬
َ ‫ق َوَب‬
ّ‫ح‬
َ ‫َفَوَقَع اْل‬

(7:118) Thus was the truth established, and their doings proved in vain.
(৭:১১৮) এভােব যা সতয িছল তা সতয পমািণত হেলা এবং যা িকছু তারা বািনেয় েরেখিছল তা িমথযা পিতপন হেলা৷

﴾7:119﴿

َ ‫غِري‬
‫ن‬
ِ ‫صا‬
َ ‫ك َواْنَقَلُبوا‬
َ ‫َفُغِلُبوا ُهَناِل‬

(7:119) Pharaoh and his men were defeated and put to shame,
(৭:১১৯) েফরাউন ও তার সাথীরা েমাকািবলার ময়দােন পরািজত হেলা এবং (িবজয়ী হবার পিরবেতর) উেলা তারা লািঞত হেলা৷

﴾7:120﴿

َ ‫جِدي‬
‫ن‬
ِ ‫سا‬
َ ‫حَرُة‬
َ‫س‬
ّ ‫ي ال‬
َ ‫َوُأْلِق‬

(7:120) and the magicians flung themselves prostrate,
(৭:১২০) আর যাদকরেদর অবসা হেলা এই -েযন েকান িজিনস িভতর েথেক তােদরেক িসজদানত কের িদেলা৷

﴾7:121﴿

َ ‫ب اْلَعاَلِمي‬
‫ن‬
ّ ‫َقاُلوا َآَمّنا ِبَر‬

(7:121) saying: 'We believe in the Lord of the universe,
(৭:১২১) তারা বলেত লাগেলাঃ “আমরা ঈমান আনলাম িবশজাহােনর রেবর পিত,

﴾7:122﴿

َ ‫سى َوَهاُرو‬
‫ن‬
َ ‫ب ُمو‬
ّ ‫َر‬

(7:122) the Lord of Moses and Aaron.' *91
*91. Thus God turned the tables on Pharaoh and his courtiers they arranged the magic show in
the hope that it would convince the people that Moses was just a sorcerer, and thus make them
skeptical about his claim to prophethood. But the actual outcome was quite the opposite. The

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

sorcerers who had been assembled were defeated. Not only that, it was also unanimously
acknowledged that the signs displayed by Moses in support of his claim were not feats of
magic. Rather, his signs rather manifested the might of God, the Lord of the universe, and
hence could not be overcome by magic.
(৭:১২২) িযিন মূসা ও হারেণরও রব৷” ৯১
৯১. এভােব মহান আলাহ েফরাউন ও তার দলবেলর ফঁােদ তােদরেকই আটেক িদেলন৷ তারা সারা েদেশর েশষ যাদকরেদর আহবান কের পকাশয সােন তােদর যাদর
পদশরনীর আেয়াজন কেরিছল৷ তােদর উেদশয িছল, এভােব তারা হযরত মূসার যাদকর হবার বযাপাের জনগণেক িনশয়তা িদেত পারেব অথবা কমপেক তােদরেক সেনেহর
মেধয িনেকপ করেত পারেব৷ িকন এ পিতেযািগতায় পরািজত হবার পর তােদর িনেজেদর আহূত যাদ িবশারদরাই সিমিলতভােব িসদান িদেয় িদল েয, হযরত মূসা(আ) যা
েপশ কেরেছন তা েমােটই যাদ নয়, বরং িনিশতভােব তা রবুল আলামীেনর শিকর িনদশরন এবং এর ওপর যাদর েকান পভাব ঘটেত পাের না৷ একথা সুষষ েয, যাদেক
যাদকরেদর চাইেত েবশী ভােলা কের আর েক জানেত পাের? কােজই তারা তখন বাসব অিভজতা ও পরীকা িনরীকার পর সাক িদল েয, ওটা যাদ নয়, তখন েফরাউন ও
তার সভাসদেদর পেক মূসােক িনছক একজন যাদকর বেল জনমেন িবশাস জনােনা অসমব হেয় পড়েলা৷

‫ن َه كَذا َلَمْك كٌر َمَكْرُتُمككوُه ِفككي‬
ّ ‫ن َلُك كْم ِإ‬
َ ‫ن َآَذ‬
ْ ‫ل َأ‬
َ ‫ن َآَمْنُتْم ِبِه َقْب‬
ُ ‫عْو‬
َ ‫ل ِفْر‬
َ ‫َقا‬
﴾7:123﴿ ‫ن‬
َ ‫ف َتْعلَُمو‬
َ ‫سْو‬
َ ‫جوا ِمْنَها َأْهَلَها َف‬
ُ ‫خِر‬
ْ ‫اْلَمِديَنِة ِلُت‬
(7:123) Pharaoh said: 'What! Do you believe before you have my permission? Surely
this is a plot you have contrived to drive out the rulers from the capital. So you shall see,
(৭:১২৩) েফরাউন বলেলাঃ “আমার অনুমিত েদবার আেগই েতামরা তার পিত ঈমান আনেল? িনশয়ই এটা েকান েগাপন চকান িছল৷ েতামরা এ
রাজধানীেত বেস এ চকান এঁেটেছা এর মািলকেদরেক কমতাচুযত করার জেনয৷ েবশ, এখন এর পিরণাম েতামরা জানেত পারেব৷

﴾7:124﴿

َ ‫جَمِعي‬
‫ن‬
ْ ‫صّلَبّنُكْم َأ‬
َ ‫ل‬
َُ ّ‫ف ُثم‬
ٍ ‫ل‬
َ‫خ‬
ِ ‫ن‬
ْ ‫جَلُكْم ِم‬
ُ ‫ن َأْيِدَيُكْم َوَأْر‬
ّ ‫طَع‬
ّ ‫لَق‬
َُ

(7:124) I shall cut off your hands and feet on the opposite sides, and then crucify you
all.'
(৭:১২৪) েতামােদর হাত -পা আিম েকেট েফলেবা িবপরীত িদক েথেক এবং তারপর েতামােদর সবাইেক শূেল চিড়েয় হতযা করেবা৷”

﴾7:125﴿

َ ‫َقاُلوا ِإّنا ِإَلى َرّبَنا ُمْنَقِلُبو‬
‫ن‬

(7:125) They replied: 'We shall surely return to our Lord.
(৭:১২৫) তারা জবাব িদেলাঃ “েস যাই েহাক আমােদর রেবর িদেকই েতা আমােদর িফরেত হেব৷

‫عَلْيَنكا‬
َ ‫غ‬
ْ ‫جاَءْتَنكا َرّبَنكا َأْفكِر‬
َ ‫ت َرّبَنكا َلّمكا‬
ِ ‫ن َآَمّنكا ِبَآَيكا‬
ْ ‫ل َأ‬
ّ ‫َوَما َتْنِقُم ِمّنا ِإ‬
﴾7:126﴿ ‫ن‬
َ ‫سِلِمي‬
ْ ‫صْبًرا َوَتَوّفَنا ُم‬
َ
(7:126) Will you punish us just because we believed in the signs of our Lord when they
came to us? Our Lord! Shower us with perseverance and cause us to die as those who
have submitted [to You].' *92
*92. Faced with utter failure Pharaoh finally resorted to branding the whole magic tournament
as a conspiracy concocted by Moses and his accomplice sorcerers. Under threat of death and
physical torture he asked the sorcerers to confess that they had acted in collusion with Moses.

This last move by Pharaoh was ineffectual. For the sorcerers readily agreed to endure every
torture, clearly proving thereby that their decision to accept Moses' message reflected their
sincere conviction and that no conspiracy was involved. Pharaoh was hardly left with any
choice. He, therefore, gave up all pretence to follow truth and justice, and brazenly resorted to
persecution instead.
The tremendous and instantaneous change, which took place in the characters of the sorcerers,
is also of significance. The sorcerers had come all the way from their homes with the purpose
of vindicating their ancestral faith and receiving pecuniary reward from Pharaoh for
overcoming Moses. However, the moment true faith illumined their hearts, they displayed such
resoluteness of will and love for the truth that they contemptuously turned down Pharaoh's
offer, and demonstrated their full readiness to endure even the worst punishments for the sake
of the truth that had dawned upon them.
(৭:১২৬) তুিম েয বযাপাের আমােদর ওপর পিতেশাধ িনেত চােচা, তা এ ছাড়া আর িকছুই নয় েয , আমােদর রেবর িনদশরসমূহ যখন আমােদর
সামেন এেসেছ তখন আমরা তা েমেন িনেয়িছ৷ েহ আমােদর রব! আমােদর সবর দান কেরাএবং েতামার আনুগতয থাকা অবসায় আমােদর দিনয়া
েথেক উিঠেয় নাও৷”৯২
৯২. পিরিসিত পােল েযেত েদেখ েফরাউন তার েশষ চালিট চালােলা৷ েস এই সমগ বযাপারিটেক হযরত মূসা(আ) ও যাদকরেদর ষড়যন বেল আখযািয়ত করেলা, তারপর
যাদকরেদরেক শারীিরক িনযরাতন ও হতযার হমিক িদেয় তােদর েথেক িনেজর এ েদাষারেপর সীকৃিত আদায় করার েচষা করেলা৷ িকন এবাের এ চালিটরও উেলা ফল হেলা৷
যাদকররা িনেজেদরেক সব রকেমর শািসর জেনয েপশ কের একথা পমাণ কের িদল েয, মূসা (আ) েক সতয বেল সীকার করা ও তঁার ওপর তােদর ঈমান আনাটা েকান
ষড়যেনর নয় বরং সেতযর অকুণ সীকৃিতর ফল৷ কােজই তখন সতয ও ইনসােফর েয পহসন েস সৃিষ করেত চািচল তা পিরহার কের েসাজাসুিজ জুলূম ও িনযরাতেনর পেথ
এিগেয় আসা ছাড়া তার আর েকান গতযনর িছল না৷
এ পসংেগ এ িবষয়িটও িবেশষভােব পিণধানেযাগয েয, মাত কেয়ক মুহূেতরর মেধয ঈমােনর সিলংগ যাদকরেদর চিরেতর িক িবরাট পিরবতরন সৃিষ করেত সকম হেয়িছল৷মাত
িকছুকণ আেগই এ যাদকরেদর কী দাপট িছল! িনেজেদর ৈপতৃক ধেমরর সাহাযযােথর তারা িনজ িনজ গৃহ েথেক েবর হেয় এেসিছল৷ তারা েফরাউনেক িজেজস
করিছল,আমরা যিদ মূসার আকমণ েথেক িনেজেদর ধেমরেক রকা করেত পাির তাহেল সরকাের আমােদর পুরসৃত করেব েতা? আর এখন ঈমােনর িনয়ামত লাভ করার পর
তােদরই সতযপীিত, সতয িনষা ও দৃঢ়ত এমন পযরােয় েপৌেছ িগেয়িছল েয, মাত িকছুকণ আেগ েয বাদশাহর সামেন তারা েলাভীর মত দহাত েপেত িদেয়িছল এখন তার
পতাপ পিতপিত ও দপরেক িনভরেয় পদাঘাত করেত লাগেলা৷ েস েয ভয়াবহ শািস েদবার হমিক িদিচল তা বরদাশত করার জেনয তারা ৈতরী হেয় িগেয়িছল৷ িকন েয সেতযর
দরজা তােদর সামেন উনুক হেয় িগেয়িছল পােণর িবিনমেয় ও তােক পিরতযাগ করেত তারা পসত িছল না৷

‫س كُدوا ِفككي‬
ِ ‫سككى َوَق كْوَمُه ِلُيْف‬
َ ‫ن َأَت كَذُر ُمو‬
َ ‫ع كْو‬
َ ‫ن َق كْوِم ِفْر‬
ْ ‫ل ِم ك‬
َُ ‫ل اْلَم‬
َ ‫َوَقككا‬
‫ساَءُهْم َوِإّنككا‬
َ ‫حِيي ِن‬
ْ ‫سَت‬
ْ ‫ل َأْبَناَءُهْم َوَن‬
ُ ‫سُنَقّت‬
َ ‫ل‬
َ ‫ك َقا‬
َ ‫ك َوَآِلَهَت‬
َ ‫ض َوَيَذَر‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫ا‬
﴾7:127﴿ ‫ن‬
َ ‫َفْوَقهُْم َقاِهُرو‬
(7:127) The elders of Pharaoh's people said: 'Will you leave alone Moses and his people
to spread mischief in the land, and forsake you and your gods?' Pharaoh replied: 'We
will kill their male children and spare their female ones. *93For indeed we hold
irresistible sway over them.'
*93. There were two periods of persecution. The first was during the reign of Rameses 11 and
took place before Moses' birth, whereas the second period of persecution started after Moses'
assumption to the office of prophethood. Common to both periods is the killing of the male
issue of Israelites while the female was spared. It was a calculated design to rob the Israelites of
their identity and to bring about their forcible assimilation. An inscription discovered during the

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

archaeological excavations of 1896 probably belongs to this period. According to this
inscription, Pharaoh Minpetah rounds off the narration of his achievements and victories in
these words: 'The Israel have been exterminated, and no seed of them is left.' (For further
explanation see al-Mu'min 40: 25)
(৭:১২৭) েফরাউনেক তার জািতর পধানরা বলেলাঃ “তুিম িক মূসা ও তার জািতেক এমিনই েছেড় েদেব েয, তারা েদেশ িবপযরয় সৃিষ কের েবড়াক
এবংেতামার ও েতামার মাবুেদর বেনগী পিরতযাগ করক? ”েফরউন জবাব িদলঃ “আিম তােদর পুতেদর হতযা করেবা এবং তােদর কনযােদর জীিবত
রাখেবা৷ ৯৩ আমরা তােদর ওপর পবল কতৃরেতর অিধকারী৷”
৯৩. এখােন উেলখ করা েযেত পাের েয, হযরত মূসা (আ) এর জেনর পূেবর িদতীয় রােমসােসর আমেল িনযরাতেনর একটা যুগ অিতবািহত হয়৷ আর িনযরাতেনর িদতীয় যুগিট
শর হয় হযরত মূসার নবুওয়াত লােভর পর৷ এ উভয় যুেগই বনী ইসরাঈেলরেদর েছেলেদর হতযা করা এবং েমেয়েদরেক জীিবত রাখা হয়৷এভােব পযরায়কেম তােদর বংশধারা
িবলুপ করার এবং এ জািতিটেক অনযজািতর মেধয িবিলন কের েদবার বযবসা করা হয়৷ ১৮৯৬ সােল পাচীন িমসেরর ধংসাবেশষ খনন করার সময় সমবত এ যুেগরই একিট
িশলািলিপ পাওয়া যায়৷ তােত এ িমনফাতাহ িফরাউন িনেজর কৃিতত ও িবজয় ধারা বণরনা করার পর িলেখেছ , আর ইসরাঈলেক িবলুপ কের েদয়া হেয়েছ ৷ তার বীজও
িনিশহ হেয় েগেছ৷ (আেরা জানার জেনয পড়ুন সূরা আল মুিমনূন ২৫আয়াত)৷

‫لك ُيوِرثَُهككا‬
ِّ ‫ض‬
َ ‫لْر‬
َْ ‫ن ا‬
ّ ‫صكِبُروا ِإ‬
ْ ‫ل َوا‬
ِّ ‫سَتِعيُنوا ِبككا‬
ْ ‫سى ِلَقْوِمِه ا‬
َ ‫ل ُمو‬
َ ‫َقا‬
﴾7:128﴿ ‫ن‬
َ ‫عَباِدِه َواْلَعاِقَبُة ِلْلُمّتِقي‬
ِ ‫ن‬
ْ ‫شاُء ِم‬
َ ‫ن َي‬
ْ ‫َم‬
(7:128) Moses said to his people: 'Seek help from Allah and be steadfast. The earth is
Allah's, He bestows it on those of His servants He chooses. The end of things belongs to
the God-fearing.'
(৭:১২৮) মূসা তার জািতেক বলেলাঃ “আলাহর কােছ সাহাযয চাও এবং সবর কেরা৷ এ পৃথীবী েতা আলাহরই৷ িতিন িনেজর বানােদর মধয েথেক
যােক চান তােক এর উতরািধকারী কেরন৷ আর যারা তঁােক ভয় কের কাজ কের চুড়ান সাফলয তােদর জেনয িনধরািরত৷ ”

ْ ‫سى َرّبُك كْم َأ‬
‫ن‬
َ‫ع‬
َ ‫ل‬
َ ‫جْئَتَنا َقا‬
ِ ‫ن َبْعِد َما‬
ْ ‫ن َتْأِتَيَنا َوِم‬
ْ ‫ل َأ‬
ِ ‫ن َقْب‬
ْ ‫َقاُلوا ُأوِذيَنا ِم‬
﴾7:129﴿ ‫ن‬
َ ‫ف َتْعَمُلو‬
َ ‫ظَر َكْي‬
ُ ‫ض َفَيْن‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫خِلَفُكْم ِفي ا‬
ْ ‫سَت‬
ْ ‫عُدّوُكْم َوَي‬
َ ‫ك‬
َ ‫ُيْهِل‬
(7:129) The people of Moses replied: 'We were oppressed before your coming to us and
after it.' Moses said: 'Your Lord will soon destroy your enemy and make you rulers in
the land. Then He will see how you act.'
(৭:১২৯) তার জািতর েলােকরা বলেলাঃ “েতামার আসার আেগও আমরা িনযরািতত হেয়িছ এবং এখন েতামার আসার পরও িনযরািতত হিচ৷” েস
জবাব িদলঃ “শীঘই েতামােদর রব েতামােদর শতেক ধংস কের েদেবন এবং পৃিথবীেত েতামােদর খলীফা করেবন, তারপর েতামরা েকমন কাজ কেরা
তা িতিন েদখেবন৷”

َ ‫ت َلَعّلُهْم َيككّذّكُرو‬
‫ن‬
ِ ‫ن الّثَمَرا‬
َ ‫ص ِم‬
ٍ ‫ن َوَنْق‬
َ ‫سِني‬
ّ ‫ن ِبال‬
َ ‫عْو‬
َ ‫ل ِفْر‬
َ ‫خْذَنا َآ‬
َ ‫َوَلَقْد َأ‬
﴾7:130﴿

(7:130) We afflicted the people of Pharaoh with hard times and with poor harvest that
they may heed.

(৭:১৩০) েফরাউেনর েলাকেদরেক আিম কেয়ক বছর পযরন দিভরক ও ফসলহািনেত আকান কেরিছ এ উেদেশয েয, হয়েতা তােদর েচতনা িফের
আসেব৷

‫سى‬
َ ‫طّيُروا ِبُمو‬
ّ ‫سّيَئٌة َي‬
َ ‫صْبُهْم‬
ِ ‫ن ُت‬
ْ ‫سَنُة َقاُلوا َلَنا َهِذِه َوِإ‬
َ‫ح‬
َ ‫جاَءْتُهُم اْل‬
َ ‫َفِإَذا‬
﴾7:131﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َيْعَلُمو‬
َ ‫ن َأْكَثَرُهْم‬
ّ ‫ل َوَلِك‬
ِّ ‫عْنَد ا‬
ِ ‫طاِئُرُهْم‬
َ ‫ل ِإّنَما‬
َ ‫ن َمَعُه َأ‬
ْ ‫َوَم‬
(7:131) But whenever prosperity came their way, they said: 'This is our due.' And
whatever hardship befell them, they attributed it to the misfortune of Moses and those
who followed him. Surely, their misfortune had been decreed by Allah - but most of
them do not know that.
(৭:১৩১) িকনততু তােদর এমিন অবসা িছল েয, ভাল সময় এেল তারা বলেতা এটা েতা আমােদর পাপয৷আর খারপ সময় এেস মূসা ও তার সাথীেদরেক
িনেজেদর জনয কূলকুেণ গণয করেতা৷ অথচ তােদর কুলকণ েতা আলাহর কােছ িছল৷ িকনততু তােদর অিধকাংশই িছল অজ ৷

﴿

َ ‫ن َلككَ ِبُمكْؤِمِني‬
‫ن‬
ُ ‫حك‬
ْ ‫حَرَنا ِبَهكا َفَمكا َن‬
َ ‫سك‬
ْ ‫ن َآَيٍة ِلَت‬
ْ ‫َوَقاُلوا َمْهَما َتْأِتَنا ِبِه ِم‬
﴾7:132

(7:132) And they said to Moses: 'Whatever sign you might produce before us in order to
enchant us, we are not going to believe you.' *94
*94. Pharaoh's courtiers obstinately persisted in branding Moses' signs, as sorcery although
they knew well that sorcery had nothing in common with the miraculous signs granted to
Moses. Even a fool would not he ready to believe that the countrywide famine and the
consistent decrease in agricultural output could have been caused by magic. It is for this reason
that the Qur'an says:
But when Our signs, which should have opened their eyes, came to them they said: 'This is
clear sorcery! And they rejected those signs out of iniquity and arrogance even though they
were inwardly convinced of it' (al-Naml 27: 13-14).
(৭:১৩২) তারা মূসােক বলেলাঃ আমােদর যাদ করার জেনয তুিম েয েকান িনদশরনই আেনা না েকন, আমরা েতামার কথা েমেন েনেবা না৷ ৯৪
৯৪. েফরাউেনর সভাসদরা এমন একিট িজিনসেক যাদ গণয করিছল, েয সমেকর তারা িনেজরাও িনিশতভােব জানেতা েয, তা যাদর ফল হেত পাের না৷ এটা তােদর চরম
হঠকারীতা ও বাগড়মর ছাড়া আর িকছুই িছল না৷ একিট েদেশর সমগ এলাকায় দিভরক েদখা েদয়া এবং একনাগােড় কেয়ক বছর কম ফসল উৎপাদন ও ফসলহািন হওয়া
েকান যাদর কারসািজ হেত পাের বেল সমবত েকান িনেবরাধ ও িবশাস করেব না৷ এ জেনযই কুরআন মজীেদ বলেছঃ
---------------------------"যখন আমার িনদশরনসমূহ পকেশযর তােদর দৃিষ সমেক এেস েগেলা তখন তারা বলেলা, এটা েতা সুষষ যাদ৷ অথচ তােদর মন িভতর েথেক সীকার কের িনেয়িছল, িকন
তারা িনছক জুলুম ও িবেদােহর কারেণ তা অসীকার করেলা"৷ (আন নামল ১৩-১৪আয়াত৷)

ٍ‫ع َوالكّدَم َآَيككات‬
َ ‫ضكَفاِد‬
ّ ‫ل َوال‬
َ ‫جكَراَد َواْلقُّمك‬
َ ‫ن َواْل‬
َ ‫طوَفككا‬
ّ ‫عَلْيِهكُم ال‬
َ ‫سْلَنا‬
َ ‫َفَأْر‬
﴾7:133﴿ ‫ن‬
َ ‫جِرِمي‬
ْ ‫سَتْكَبُروا َوَكاُنوا َقْوًما ُم‬
ْ ‫ت َفا‬
ٍ ‫ل‬
َ‫ص‬
ّ ‫ُمَف‬
(7:133) Then We afflicted them with a great flood *95 and locusts, and the lice *96, and
the frogs, and the blood. All these were distinct signs and yet they remained haughty.

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

They were a wicked people.
*95. This probably refers to the torrential rain accompanied by hailstorm. While we do not
totally exclude the possibility of other kinds of storms, we are inclined to the view, that it
probably signifies hailstorm since the Bible specifically mentions that. (See Exodus 9: 23-4 Ed.)
*96. The word used in the text - qummal - denotes lice, fleas, small locusts, mosquitoes, and
weevil. This rather general term has been used in the Qur'an probably to suggest that while men
were afflicted with lice and fleas, weevil destroyed the barns. (Cf. Exodus 7-12. See also
Tafhim al-ur'an, al-Zukhruf 43, n. 43.)
(৭:১৩৩) অবেশেষ আিম তােদর ওপর দেযরাগ পাঠালাম, ৯৫ পংগপাল েছেড় িদলাম, উকুন ৯৬ ছিড়েয় িদলাম, বযাংেগর উপদব সৃিষ করলাম, এবং
রক বষরণ করলাম৷ এসব িনদশরন আলাদা আলাদা কের েদখালাম ৷িকন তারা অহংকাের েমেত রইেলা এবং তারা িছল বড়ই অপরাধপবণ সমদায়৷
৯৫. সমবত এখােন বৃিষজিনত দেযরাগ বুঝােনা হেয়েছ৷ বৃিষর সােথ িশলাও বিষরত হেয়িছল৷ যিদও অনয ধরেনর পাকৃিতক দেযরাগও হেত পাের িকন বাইেবেল িশলাবৃিষ জিনত
দেযরােগর কথা বলা হেয়েছ৷ তাই এখােন এ অথরিটেকই অগািধকার িদিচ৷
৯৬. এখােন মূল শব হেচ---- (কুমালু) ৷ এর কেয়কিট অথর হয়৷েযমন, উকুন, েছাট মািছ, েছাট পংগপাল, মশা, ঘুণ ইতযািদ৷ সমবত এ বহ অথরেবাধ শবিট বযবহার
করার কারণ হেচ এই েয, একই সংেগ উকুন ও মশা মানুেষর ওপর এবং ঘুণ খাদয শেসযর ওপর আকমন কের থাকেব৷(তুলনামূলক পােঠর জেনয েদখুন বাইেবেলর যাত
পুসক ৭-১২ অধযায়৷ এ ছাড়াও সূরা যুখরফ -এর ৪৩টীকািটও েদখুন)৷

َ‫عْن كَدك‬
ِ ‫عِهَد‬
َ ‫ك ِبَما‬
َ ‫ع َلَنا َرّب‬
ُ ‫سى اْد‬
َ ‫جُز َقاُلوا َيا ُمو‬
ْ ‫عَلْيِهُم الّر‬
َ ‫َوَلّما َوَقَع‬
﴿ ‫ل‬
َ ‫سكَراِئي‬
ْ ‫ك َبِنككي ِإ‬
َ ‫ن َمَعك‬
ّ ‫سكَل‬
ِ ‫ك َوَلُنْر‬
َ ‫ن َلك‬
ّ ‫جَز َلُنْؤِمَن‬
ْ ‫عّنا الّر‬
َ ‫ت‬
َ ‫شْف‬
َ ‫ن َك‬
ْ ‫َلِئ‬
﴾7:134

(7:134) Each time a scourge struck them they, said: '0 Moses! Pray for us to your Lord
on the strength of the prophethood He has bestowed upon you. Surely, if you remove
this scourge from us, we will truly believe in you, and will let the Children of Israel go
with you.'
(৭:১৩৪) যখনই তােদর ওপর িবপদ আসেতা তারা বলেতাঃ েহ মূসা ! েতামার রেবর কােছ তুিম েয মযরাদার অিধকারী তার িভিতেত তুিম আমােদর
জনয েদায়া কেরা৷ যিদ এবার তুিম আমােদর ওপর েথেক ও দেযরাগ হিটেয় দাও, তাহেল আমরা েতামার কথা েমেন েনেবা এবং বনী ইসরাঈলেক
েতামার সােথ পািঠেয় েদেবা৷

﴾7:135﴿

َ ‫ل ُهْم َباِلُغوُه ِإَذا ُهْم َيْنُكُثو‬
‫ن‬
ٍ‫ج‬
َ ‫جَز ِإَلى َأ‬
ْ ‫عْنُهُم الّر‬
َ ‫شْفَنا‬
َ ‫َفَلّما َك‬

(7:135) But when We removed the scourge from them until a term - a term, which they
were, bound to reach - they at once broke their promise.
(৭:১৩৫) িকন যখনই তােদর ওপর েথেক আযাব সিরেয় িনতাম একিট িনিদরষ সমেয়র জনয অমিন, তারা েসই অংগীকার ভংগ করেতা৷

‫عنَْهككا‬
َ ‫غَرْقَناُهْم ِفي اْلَيكّم ِبكَأّنُهمْ َككّذُبوا ِبَآَياِتَنككا َوَكككاُنوا‬
ْ ‫َفاْنَتقَْمَنا ِمْنُهْم َفَأ‬

﴾7:136﴿

َ ‫غاِفِلي‬
‫ن‬
َ

(7:136) So We inflicted Our retribution on them, and caused them to drown in the sea
because they gave the lie to Our signs and were heedless of them.
(৭:১৩৬) তাই আিম তােদর েথেক বদলা িনেয়িছ এবং তােদরেক সমুেদ ডুিবেয় িদেয়িছ৷ কারণ তারা আমার িনদশরনগেলােক িমথযা বেলিছল এবং
েসগেলার বযাপাের েবপেরায়া হেয় িগেয়িছল৷

‫لْرضِ َوَمَغاِربََهككا‬
َْ ‫ق ا‬
َ ‫شككاِر‬
َ ‫ن َم‬
َ ‫ضكَعُفو‬
ْ ‫سَت‬
ْ ‫ن َكاُنوا ُي‬
َ ‫َوَأْوَرْثَنا اْلَقْوَم اّلِذي‬
‫ل بَِمككا‬
َ ‫س كَراِئي‬
ْ ‫عَلى َبِنككي ِإ‬
َ ‫سَنى‬
ْ‫ح‬
ُ ‫ك اْل‬
َ ‫ت َكِلَمُة َرّب‬
ْ ‫اّلِتي َباَرْكَنا ِفيَها َوَتّم‬
﴿ ‫ن‬
َ ‫شو‬
ُ ‫عْونُ َوَقْوُمُه َوَما َكاُنوا َيْعِر‬
َ ‫صَنُع ِفْر‬
ْ ‫ن َي‬
َ ‫صَبُروا َوَدّمْرَنا َما َكا‬
َ
﴾7:137

(7:137) And We made those who had been persecuted inherit the eastern and western
lands which We had blessed. *97 Thus your Lord's gracious promise was fulfilled to the
Children of Israel, for they had endured with patience; and We destroyed all that
Pharaoh and his people had wrought, and all that they had built.
*97. The Israelites were made the inheritors of Palestine. Some commentators of the Qur’an to
mean that the Israelites were made the rulers of Egypt as well have interpreted this. This view,
however, is neither supported by, the Qur'an nor by any other historical and archaeological
evidence. We have, therefore, serious reservations about the correctness of this opinion. (See
Tafhim a]-Qur'an, al-Kahf 18, n. 57, and al-Shuara' 26, n. 45)
(৭:১৩৭) আর তােদর জায়গায় আিম পিতিষত কেরিছলাম দবরল ও অেধাপিতত কের রাখা মানব েগাষীেক৷ অতপর েয ভুখেণ আিম পাচুেযর ভের
িদেয়িছলাম , তার পূবর ও পিশম অংশেক তােদরই করতালগত কের িদেয়িছলাম৷ ৯৭ এভােব বনী ইসরাঈেলর বযাপাের েতামার রেবর কলযােনর
পিতশিত পূণর হেয়েছ৷ কারণ তারা সবর কেরিছল৷ আর েফরাউন ও তার জািত যা িকছু ৈতরী কেরিছল ও উচূ করিছল তা সব ধংস কের েদয়া হেয়েছ৷
৯৭. অথরাৎ বনী ইসরাঈলেক িফিলিসন ভূখেণর উতরািধকারী কের িদেয়িছ৷ েকউ েকউ এর এ অথর গহণ কেরেছন েয, বনী ইসরাঈলেক েখাদ িমসেরর মািলক বািনেয় েদয়া
হয়৷ িকন এ অথর গহন করার সপেক এেক েতা কুরআেনর ইংিগতগেলা যেথষ পিরমােণ সষ নয়৷তদপির ইিতহাস ও পততািতক িনদশরনাবলী েথেকও এর সপেক েকান
শািকশালী পমাণ পাওয়া যায় না৷ তাই এ অথর গহণ করার বযাপাের আিম িদধািনত ৷ (েদখুন সূরা আল কাহােফর ৫৭ টীকা এবং আশ শআরার ৪৫ টীকা)৷

‫ص كَناٍم‬
ْ ‫عَلككى َأ‬
َ ‫ن‬
َ ‫عَلى َقْوٍم َيْعُكُفو‬
َ ‫حَر َفَأَتْوا‬
ْ ‫ل اْلَب‬
َ ‫سَراِئي‬
ْ ‫جاَوْزَنا ِبَبِني ِإ‬
َ ‫َو‬
‫ل َلَنككا ِإَلًهككا َكَمككا َلُهكْم َآِلَهكٌة َقككالَ ِإّنُككْم َقكْوٌم‬
ْ ‫جَعك‬
ْ ‫سككى ا‬
َ ‫َلُهْم َقككاُلوا َيككا ُمو‬
﴾7:138﴿ ‫ن‬
َ ‫جهَُلو‬
ْ ‫َت‬
(7:138) And We led the Children of Israel across the sea; and then they came upon a
people who were devoted to the worship of their idols. They said: '0 Moses, make for us
a god even as they have gods.' *98 Moses said: 'You are indeed an ignorant people.'

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

*98. The point at which the Israelites probably crossed the Red Sea lies somewhere between the
present Suez and Ismailia. After that they headed towards the south of the Sinai peninsula along
the coastal route. The western and northern regions of the Sinai peninsula were then included in
the Egyptian empire. In the southern part of the peninsula, in the area lying between the present
towns of Tur and Abu Zanimah, there were copper and turquoise mines. Since these were of
immense value to the Egyptians, a number of garrisons had been set up to ensure their security'.
One such garrison was located at a place known as Mafqah, which also housed a big temple.
The ruins of this temple can still be found in the south-western part of the peninsula. In its
vicinity there was an ancient temple, dedicated to the moon-god of the Semites. Passing by
these places the people of Israel, who had been subservient to the Egyptians for a long time and
were thus considerably Egyptianized in their outlook, felt the desire to indulge in idol-worship.
The extent to which the Israelites had become degenerated as a result of their slavery may be
gauged by Joshua's last address to the Israelites delivered seventy years after their exodus from
Epypt:
Now therefore fear the Lord, and serve him in sincerity and in faithfulness; put away the gods
which your fathers served beyond the River, and in Egypt, and serve the Lord. And if you are
unwilling to serve the Lord, choose this day whom you will serve; whether the gods which your
fathers served in the region beyond the River, or the gods of the Amorites in whose land you
dwell; but as for me and my house, we will serve the Lord (Joshua 24: 14-15).
This shows that even though the Israelites had been taught and trained by Moses for forty Years
and by Joshua for twenty-eight years, they had still been unable to purge their minds of those
influences which had warped their outlook and mentality during their period of bondage under
Pharaoh. These Muslims had begun to look upon idol-worship as natural. Even after their
exodus, the sight of a temple would incline them to indulge in the idolatrous practices which
they had observed among their former masters.
(৭:১৩৮) বনী ইসরাঈলেক আিম সাগর পার কের িদেয়িছ৷ তারপর তারা চলেত চলেত এমন একিট জািতর কােছ উপিসত হেলা যারা িনেজেদর
কিতপয় মূিতরর পূজায় িলপ িছল৷ বনী ইসরাঈল বলেত লাগেলাঃ েহ মূসা! এেদর মাবূেদর মত আমােদর জেনযা একটা মাবূদ বািনেয় দাও৷ ৯৮ মূসা
বলেলাঃ েতামরা বড়ই অেজর মত কথা বলেছা৷
৯৮. বনী ইসরাঈল েয সান েথেক েলািহত সাগর অিতকম কেরিছল েসিট িছল সমবত বতরমান সুেয়জ ও ইসমাঈমীয়ার মধযবতরী েকান একিট সান এখান েথেক েলািহত
সাগর পার হেয় তারা িসনাই উপদীেপর দিকণ অঞেলর িদেক উপকূেলর িকনারা েঘেষ রওয়ানা হেয়িছল৷ েস সময় িসনাই উপদীেপর পিশম ও উতরাংশ িমসেরর শাসনাধীন
িছল৷ দিকেনর এলাকায় বতরমান তূর শহর ও আবু যানীমার মধযবতরী সােন তামা ও নীলাম পাথেরর খিন িছল৷ এ খিনজ সমদ দারা িমসরবাসী পচুর লাভবান হেতা৷ এ
খিনগেলা সংরকন করার জেনয িমসরীয়রা কেয়ক জায়গায় টহলদার েচৌিক সাপন কেরিছল৷ মাফকাহ নামক সােন এ ধরেনর একিট েচৌিক িছল৷ এখােন িছল িমসরীয়েদর
একিট িবরাট মিনর৷ উপিদেপর দিকণ -পিশম অঞেল এখেনা এর ধংসাবেশেষ পাওয়া যায়৷ এর কাছাকািছ আর একিট সােন পাচীন িসিরয় জািতসমূেহর চনেদবীর মিনর
িছল ৷সমবত এরই েকান একিট জায়গা িদেয় যাবার সময় দীঘরকাল িমসরীয়েদর েগালামীেত জীবন যাপন করার কারেণ িমসরীয় েপৌতিলক ভাবধারায় গভীরভােব পভািবত
বনী ইসরাঈল সমদােয়র মেন একিট কৃিতম েখাদার পেয়াজন অনুভূম হেয় থাকেব৷

িমসরবাসীেদর দাসত বনী ইসরাঈলীেদর মনমানসেক িকভােব িবকৃত কের িদেয়িছল৷ িনেমাক িবষয়িট েথেক তা সহেজই অনুমান করা যায়৷ িমসর েথেক েবর হেয় আসার ৭০
বছর পর হযরত মূসার পথম খলীফা হযরত ইউসা ইবেন নূন বনী ইসরাঈলীেদর সাধারণ সমােবেশ তঁার েশষ ভাষেন বেলনঃ
"েতামরা আলাহেক ভয় কেরা এবং সৎ সংকল ও িনষার সােথ তঁার উপাসনা কেরা৷ আর েতামােদর পূবর-পুরষরা বড় নদীর (েফারাত) ওপাের ও িমসের েযসব েদবতার পুজা
করেতা তােদরেক বাদ দাও৷ আর একমাত আলাহর ইবাদত যিদ েতামােদর খারাপ লােগ তাহেল েতামরা যার উপাসনা করেব আজই তােক মেনানীত কের নাও৷…..এখেনা
রইেলা আমার ও আমার পিরবারবেগরর কথা, আমরা শধুমাত আলাহরই উপাসনা করেত থাকেবা"৷(িযেহাশূয় ২৪: ১৪-১৫)
এ েথেক বুঝা যায় েয, েফরাউন শািসত িমসেরর দাসেতর যুেগ এ জািতর িশরা উপিশরা েপৌিতকতার েয পভাব ছিড়েয় পেড়িছল, ৪০ বছর পযরন হযরত মূসার এবং ২৮
বছর পযরন হযরত ইউশার অধীেন িশকা ও অনুশীলন লাভ এবং তঁােদর েনতৃরত জীবন পিরচালনা করার পরও তা দূর করা তােদর পেক সমব হয়িন৷ এ অবসায় তারা
িনেজেদর সােবক পভুেদরেক এসব মূিতরর পদতেল মাথা ঘষেত েদেখেছ, িমসর েথেক েবর হেয় সােথ সােথই েসই ধরেনর মূিতর েদেখ তার সামেন মাথা েনায়ােত এসব
িবকৃতমনা ও পথভষ মুসলমানরা েয উদগীক হেয় উঠেব না, েসটা েকমন কেরই বা সমব৷

﴾7:139﴿

َ ‫ل َما َكاُنوا َيْعَمُلو‬
‫ن‬
ٌ‫ط‬
ِ ‫لِء ُمَتّبٌر َما ُهْم ِفيِه َوَبا‬
َ ‫ن هَُؤ‬
ّ ‫ِإ‬

(7:139) The way these people follow is bound to lead to destruction; and all their works
are vain.
(৭:১৩৯) এরা েয পদিতর অনুসরণ করেছ তােত ধংস হেব এবং েয কাজ এরা কেরেছ তা সমূণর বািতল৷

﴾7:140﴿

َ ‫ضَلُكْم عََلى اْلَعاَلِمي‬
‫ن‬
ّ ‫ل َأْبِغيُكْم ِإَلًها َوُهَو َف‬
ِّ ‫غْيَر ا‬
َ ‫ل َأ‬
َ ‫َقا‬

(7:140) Moses said: 'Should I seek any god for you other than Allah although it is He
who has exalted you above all?'
(৭:১৪০) মূসা আেরা বলেলাঃ আিম িক েতামােদর জনয আলাহ ছাড়া অনয েকান ইলাহ খুজেবা? অথচ আলাহই সারা দিনয়ার সমস জািত েগািষর
ওপর েতামােদর েশষত দান কেরেছন৷

‫ن َأْبَناَءُكْم‬
َ ‫ب ُيَقّتُلو‬
ِ ‫سوَء اْلَعَذا‬
ُ ‫سوُموَنُكْم‬
ُ ‫ن َي‬
َ ‫عْو‬
َ ‫ل ِفْر‬
ِ ‫ن َآ‬
ْ ‫جْيَناُكْم ِم‬
َ ‫َوِإْذ َأْن‬
﴾7:141﴿ ‫م‬
ٌ ‫ظي‬
ِ‫ع‬
َ ‫ن َرّبُكْم‬
ْ ‫لٌء ِم‬
َ ‫ساَءُكْم َوِفي َذِلُكْم َب‬
َ ‫ن ِن‬
َ ‫حُيو‬
ْ ‫سَت‬
ْ ‫َوَي‬
(7:141) And call to mind when We delivered you from Pharaoh's people who perpetrated
on you a terrible torment, putting your males to death and sparing your females. Surely
in it there was an awesome trial for you from your Lord.
(৭:১৪১) আর (আলাহ বেলন) েসই সমেয়র কথা সরণ কেরা যখন আিম েফরাউেনর েলাকেদর কবল েথেক েতামােদর মুিক িদেয়িছলাম, যারা
েতামােদরেক কেঠার শািস িদেতা, েতামােদর েছেলেদর হতযা করেতা এবং েমেয়েদর জীিবত রাখেতা৷ আর এর মেধয েতামােদর রেবর পক েথেক
েতামােদর জনয িছল মহা পরীকা৷

َ‫ت َرّبِه َأْرَبِعين‬
ُ ‫شٍر َفَتّم ِميَقا‬
ْ ‫ن َلْيَلًة َوَأْتَمْمَناَها ِبَع‬
َ ‫لِثي‬
َ ‫سى َث‬
َ ‫عْدَنا ُمو‬
َ ‫َوَوا‬
‫ل َتّتِب كْع‬
َ ‫ح َو‬
ْ ‫صِل‬
ْ ‫خُلْفِني ِفي َقْوِمي َوَأ‬
ْ ‫نا‬
َ ‫خيِه َهاُرو‬
ِ‫ل‬
َِ ‫سى‬
َ ‫ل ُمو‬
َ ‫َلْيَلًة َوَقا‬
﴾7:142﴿ ‫ن‬
َ ‫سِدي‬
ِ ‫ل اْلُمْف‬
َ ‫سِبي‬
َ
(7:142) And We appointed for Moses thirty nights, to which We added ten, whereby the
term of forty nights set by his Lord was fulfilled. *99 And Moses said to Aaron, his
brother: 'Take my place among my people, act righteously, and do not follow the path of
those who create mischief.' *100

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

*99. After the exodus of the Israelites from Egypt which marks, on the one hand, the end of the
constraints of slavery and on the other, the beginning of their life as an independent nation,
Moses was summoned by God to Mount Sinai in order that he might receive the Law for Israel.
He was initially summoned for a period of forty days so that he might single-mindedly devote
himself to worshipping, fasting, meditation and reflection and thus develop the ability to
receive the revelation which was to put a very heavy burden upon him.
In compliance with God's command, Moses left the Israelites at the place now known as the
Wadi al-Shaykh which lies between Nabi Salih and Mount Sinai. The place where the Israelites
had camped is presently called
Maydan al-Rahah. At one end of the valley is a hillock where, according to local tradition, the
Prophet Salih pitched his tent after his migration from the land of Thamud. A mosque built as a
monument to the Prophet Salih still adorns the landscape. Mount Harun is located at the other
end of the valley where, again, according to local tradition, the Prophet Harun (Aaron) stayed
after his exasperation with the Israelites because of their cow-worship. The top of the towering
Mount Sinai, standing 7,359 feet high, is mostly enveloped by clouds. The cave to which
Moses retired for forty days to devote himself to worship and meditation is situated at the top of
the mountain, and still attracts many pilgrims. Close to the cave are a mosque and a church.
Moreover, a monastery built in the Justinian period stands even today at the foot of the
mountain. (See Tafhim al-Qur'an, al-Naml 27:nn.9-10.)
*100. Although Aaron was senior to Moses in age by three years, he was placed under the
direction of the Prophet Moses and was required to assist him in connection with his mission,
As explained elsewhere in the Qur'an, Aaron was not assigned independent prophethood; he
was rather appointed a Prophet by God in response to Moses' prayer that he be appointed as his
assistant. (See Ta Ha 20: 29-31 - Ed.)
(৭:১৪২) মূসােক আিম িতিরশ রাত-িদেনর জনয (িসনাই পবরেতর ওপর) ডাকলাম এবং পের দশ িদন আেরা বািড়েয় িদলাম৷ এভােব তার রেবর
িনধরািরত সময় পূণর চিলশ িদন হেয় েগেলা৷ ৯৯ যাওয়ার সময় মূসা তার ভাই হারনেক বলেলাঃ আমার অনুপিসিতেত তুিম আমার জািতর মেধয আমার
পিতিনিধত করেব, সিঠক কাজ করেত থাকেব এবং িবপযরয় সৃিষকারীেদর পেথ চলেব না৷ ১০০
৯৯. িমসর েথেক েবর হবার পর বনী ইসরাঈলীেদর দাসসূলভ জীবেনর অবসান ঘটেলা৷ তারা একিট সাধীন জািতর মযরাদা লাভ করেলা৷ এ সময় বনী ইসরাঈলীেদরেক একিট
শরীয়াত দান করার জেনয মহান আলাহর হকুেম মূসা (আ) েক িসনাই পাহােড় ডাকা হেলা৷ কােজই ওপের েয ডােকর কথা বলা হেয়েছ তা িছল এ বযাপাের পথম ডাক৷
আর এর জেনয চিলশ িদেনর েময়াদ িনিদরষ করার িবেশষ কারণ িছল৷ হযরত মূসা চিলশ িদন পাহােড়র ওপর কাটােবন৷েরাযা রাখেবন৷িদনরাত ইবাদত -বেনগী িচনা -গেবষণা
কের মন-মিসেষেক একমূখী ও একিনষ করেবন এবং এভােব তার ওপর েয গরতপূণর বাণী নািযল হেত যািচল তােক যথাযতভােব গহণ করার েযাগযতা িনেজর মেধয সৃিষ
করেত পারেবন৷
হযরত মূসা এ িনেদরশ পালন করার উেদেশয িসনাই পাহােড় যাবার সময় বতরমান মানিচেত বনী সােলহ ও িসনাই পাহােড়র মধযবতরী ওয়ািদ আল শায়খ (আল শায়খ
উপতযকা) নােম অিভিহত সানিটেত বনী ইসরাঈলেক েরেখ িগেয়িছেলন৷ এ উপতযকার েয অংেশ বনী ইসরাঈল তঁাবু খািটেয় অবসান কেরিছল বতরমােন তার নাম আল রাহা
পানর৷ উপতযকার এক পােন একিট েছাট পাহাড় অবিসত৷ সানীয় বণরনা অনুযায়ী হযরত সােলহ আলাইস সালাম সামূেদর এলাকা েথেক িহজরত কের এখােন এেস অবসান
কেরিছেলন৷বতরমােন েসখােন তঁার সৃিত িচহ িহেসেব একিট মসিজদ িনিমরত হেয়েছ৷অনযিদেক রেয়েছ জাবাল -ই -হারণ নােম আর একিট েছাট পাহাড়৷ কিথত আেছ
,হযরত হারন আলাইিহস সালাম বনী ইসরাঈলেদর বাছুর পূজায় অসনষ ও কুদ হেয় এখােন এেস বেসিছেলন৷ তৃতীয় িদেক রেয়েছ িসনাইেয়র উঁচু পবরত ! এর ওপেরর
ভাগ সবসময় েমেঘ আচন থােক৷ এর উচতা ৭৩৫৯ ফুট৷ এ পাহােড়র িশখর েদেশ অবিসত একিট গহা আেজা তীথর যাতীেদর েকনসেল পিরণত হেয় আেছ৷ এ গহায়

হযরত মূসা (আ) িচলা িদেয়িছেলন অথরাৎ চিলশ িদন েরাযা েরেখ িদনরাত আলাহর ইবাদত বেনগী ও িচনা -গেবষণায় কািটেয়িছেলন৷ এর কােছই রেয়েছ মুসলমানেদর
একিট মসিজদ ও খৃষানেদর একিট গীজরা৷অনযিদেক পাহােড়র পাদেদেশ েরাম সমাট জিসিনেনর আমেলর একিট খানকাহ আেজা সশরীের িবরাজ করেছ৷ (িবসািরত জানার
জেনয েদখুন সূরা আন নামল ৯-১০ টীকা)৷
১০০. হযরত হারন আলাইিহস সালাম িছেলন হযরত মূসা আলাইিহস সালােমর েচেয় িতন বছেরর বড়৷ তবুও নবুওয়ােতর দািয়ত পালেনর বযাপাের িতিন িছেলন তঁার
সাহাযযকারী৷ তঁার নবুওয়াত সতন িছল না ৷ বরং হযরত মূসা আলাইিহস সালাম আলাহর কােছ আেবদন জািনেয় তােক িনেজর উজীর িনযুক করেত েচেয়িছেলন৷ কুরআন
মজীেদর সামেনর িদেকর আেলাচনায় এ িবষয়িট সুষষ হেয় উেঠেছ৷

َ‫ظرْ ِإَلْيكَ َقككال‬
ُ ‫ب َأِرِني َأْن‬
ّ ‫ل َر‬
َ ‫سى ِلِميَقاِتَنا َوَكّلَمُه َرّبُه َقا‬
َ ‫جاَء ُمو‬
َ ‫َوَلّما‬
‫ف َتَراِنككي‬
َ ‫س كْو‬
َ ‫ن اسْ كَتَقّر َمَكككاَنُه َف‬
ِ ‫ل َفِإ‬
ِ ‫جَب‬
َ ‫ظْر ِإَلى اْل‬
ُ ‫ن اْن‬
ِ ‫ن َتَراِني َوَلِك‬
ْ ‫َل‬
َ ‫صِعًقا َفَلّمككا َأَفككاقَ َقككا‬
‫ل‬
َ ‫سى‬
َ ‫خّر ُمو‬
َ ‫جَعَلُه َدّكا َو‬
َ ‫ل‬
ِ ‫جَب‬
َ ‫جّلى َرّبُه ِلْل‬
َ ‫َفَلّما َت‬
﴾7:143﴿ ‫ن‬
َ ‫ل اْلُمْؤِمِني‬
ُ ‫ك َوَأَنا َأّو‬
َ ‫ت ِإَلْي‬
ُ ‫ك ُتْب‬
َ ‫حاَن‬
َ ‫سْب‬
ُ
(7:143) And when Moses came at Our appointment, and his Lord spoke to him, he said:
'O my Lord! Reveal Yourself to me, that I may look upon You!' He replied: 'Never can
you see Me. However, behold this mount; if it remains firm in its place, only then you
will be able to see Me.' And as soon as his Lord unveiled His glory to the mount, He
crushed it into fine dust, and Moses fell down in a swoon. And when he recovered, he
said: 'Glory be to You! To You I turn in repentance, and I am the foremost among those
who believe.'
(৭:১৪৩) অতপর মূসা যখন আমার িনধরািরত সমেয় উপিসত হেলা এবং তার রব তার সােথ কথা বলেলন তখন েস আকূল আেবদন জানােলা, েহ
পভু! আমােক দশরেনর শিক দাও, আিম েতামােক েদখেবা৷িতিন বলেলনঃ তুিম আমােক েদখেতপােরা না৷ হঁা সামেনর পাহােড়র িদেক তাকাও ৷ েসিট
যিদ িনেজর জায়গায় দঁািড়েয় থাকেত পাের তাহেল অবিশয তুিম আমােক েদখেত পােব৷ কােজই তার রব যখন পাহােড় েজযািত পকাশ করেলন তখন তা
তােক চূণর িবচূণর কের িদল এবং মূসা সংজাহীন হেয় পেড় েগেলা৷ সংজা িফের েপেয় মূসা বলেলাঃ পাক-পিবত েতামার সতা৷ আিম েতামার কােছ
তাওবা করিছ এবং আিমই সবরপথম মুিমন৷

‫خ كْذ‬
ُ ‫لِتي َوِبَكلَِمككي َف‬
َ ‫سا‬
َ ‫س ِبِر‬
ِ ‫عَلى الّنا‬
َ ‫ك‬
َ ‫طَفْيُت‬
َ‫ص‬
ْ ‫سى ِإّني ا‬
َ ‫ل َيا ُمو‬
َ ‫َقا‬
﴾7:144﴿ ‫ن‬
َ ‫شاِكِري‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ن ِم‬
ْ ‫ك َوُك‬
َ ‫َما َآَتْيُت‬
(7:144) He said: 'O Moses! I have indeed preferred you to all others by virtue of the
Message I have entrusted to you and by virtue of My speaking to you. Hold fast
therefore, to whatever I have granted you, and give thanks.'
(৭:১৪৪) বলেলন েহ মূসা! আিম সমস েলাকেদর ওপর অগািধকার িদেয় েতামােক িনবরািচত কেরিছ েযন আমার নবুওয়ােতর দািয়ত পালন করেত
পােরা এবং আমার সােথ কথা বলেত পােরা৷ কােজই আিম েতামােক যা িকছু েদই তা িনেয় কৃতজতা পকাশ কেরা৷

‫يٍء‬
ْ ‫شك‬
َ ‫ل‬
ّ ‫ل ِلُكك‬
ً ‫صككي‬
ِ ‫ظكًة َوَتْف‬
َ‫ع‬
ِ ‫يٍء َمْو‬
ْ ‫شك‬
َ ‫ل‬
ّ ‫ن ُك‬
ْ ‫ح ِم‬
ِ ‫لْلَوا‬
َْ ‫َوَكَتبَْنا َلُه ِفي ا‬
﴿ ‫ن‬
َ ‫س كِقي‬
ِ ‫سكُأِريُكْم َدارَ اْلَفا‬
َ ‫س كِنَها‬
َ‫ح‬
ْ ‫خ كُذوا ِبَأ‬
ُ ‫ك َيْأ‬
َ ‫خذَْها ِبُقّوٍة َوْأُمْر َقْوَم ك‬
ُ ‫َف‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

﴾7:145

(7:145) And We ordained for Moses in the Tablets all manner of admonition, and
instruction concerning all things, *101 and said to him: Hold to these, with all your
strength. and bid your people to follow them in accord with their best understanding. *102
I shall soon show you the habitation of the wicked. *103
*101. The Bible categorically mentions that the tablets were of stone. The act of writing on
these tablets is attributed in both the Qur'an and the Bible, to God. Nonetheless, it is not
possible to ascertain whether the actual act of writing was as performed by God exercising His
power directly, or by God in the sense of His assignment of the task to some angel or to Moses
(cf. Exodus 31: 18, 32: 15-16; and Deuteronomyi, 5: 6-22).
*102 The Israelites were asked to hold fast to the Law to follow it in its plain meaning, a
meaning which can he grasped by an ordinary man of sound heart and good intent with the help
of his common sense. This stipulation was added in order to discourage the chicanery and hairsplitting to which lawyers resort in order to accommodate the crooked aims of the people. The
warning was necessary to emphasize that holding fast to the Law was not to be equated with
following the chicanery of the lawyers.
*103. The Israelites were told that on their way they would come across the ruins of earlier
nations who had refused to turn to God and who had persisted in their evil way's. Observing
those ruins would he instructive insofar as they eloquently spoke of the tragic end that meets
those who indulge in such iniquity.
(৭:১৪৫) এরপর আিম মূসােক কতকগেলা ফলেক জীবেনর সকল িবভাগ সমেকর উপেদশ এবং পেতযকিট িদক সমেকর সুসষ িনেদরশ িলেখ িদলাম
১০১
এবং তােক বললামঃ “এগেলা শক হােত মজবুতভােব আঁকেড় ধেরা এবং েতামার জািতেক এর উতম তাৎপেযরর অনুসরণ করার হকুম দাও৷ ১০২
শীঘই আিম েতামােদর েদখােবা ফােসকেদর গৃহ৷” ১০৩
১০১. বাইেবেল এ দিট ফলক সমেকর বলা হেয়েছ েয, এ দিট িছল পসর ফলক৷ এ ফলেক েলখার কাজিটেক কুরআন ও বাইেবল উভয় িকতােবই সয়ং আলাহর কীিতর বেল
অিভিহত করা হেয়েছ৷ তেব আলাহ িনেজর কুদরত তথা অসীম কমতা বেল িনেজই সরাসির এ ফলেক েলখার কাজ সমাদন কেরিছেলন, না েকান েফেরশতােক িদেয় এ
কাজ সমন কেরিছেলন অথবা এ কােজ হযরত মূসার হাত বযবহার কেরিছেলন, এ বযাপারিট জানার েকান মাধযম আমােদর হােত েনই৷ (তূলনামূলক অধযায়েনর জেনয
পড়ুনঃবাইেবল, যাতা পুসক, ৩১: ১৮,৩২:১৫-১৬এবং িদতীয় িববরণ ৫:৬-২২)৷
১০২. অথরাৎ আলাহর িবধােনর সরল, েসাজা, ও সুষষ মমর ও তাৎপযর গহণ কেরা৷ একজন সহজ সরল িবেবক সমন মানুষ, যার মেন েকান অসৎ উেদশয ও বকতা েনই,
েস সাধারণ বুিদ দারা েয অথর েবােঝ , এখােন তার কথাই বলা হেয়েছ৷ যারা আলাহর িবধােনর সরল েসাজা অথরেবাধক শবগেলা েথেক জিটল আইনগত মার পঁযাচ এবং
িবভাট িবভািন ও কলহ েকানাল সৃিষর পথ খুঁেজ েবর কের তােদর েসই সব কূটতকরেক যােত আলাহর িকতােবর অনুেমািদত িবষয় মেন না করা হয় তাই এ শতর আেরাপ
করা হেয়েছ৷
১০৩. অথরাৎ সামেন অগসর হেয় েতামরা এমন সব জািতর পাচীন ধংসাবেশষ েদখেব যারা আলাহর বেনগী ও আনুগতয েথেক মুখ িফিরেয় িনেয়িছল৷ এবং ভুল পেথ চলার
বযাপাের অিবচল িছল৷ েসই ধংসাবেশষগেলা েদেখ এ ধরেনর কমরনীিত অবলমেনর পিরণাম িক হয় তা েতামরা িনেজরাই জানেত পারেব৷

ْ‫ق َوِإن‬
ّ ‫حك‬
َ ‫ض ِبَغْيكِر اْل‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫ن ِفككي ا‬
َ ‫ن َيَتَكّبكُرو‬
َ ‫ي اّلِذي‬
َ ‫ن َآَياِت‬
ْ‫ع‬
َ ‫ف‬
ُ ‫صِر‬
ْ ‫سَأ‬
َ
ً ‫سكِبي‬
‫ل‬
َ ‫خكُذوُه‬
ِ ‫ل َيّت‬
َ ‫شِد‬
ْ ‫ل الّر‬
َ ‫سِبي‬
َ ‫ن َيَرْوا‬
ْ ‫ل ُيْؤِمُنوا ِبَها َوِإ‬
َ ‫ل َآَيٍة‬
ّ ‫َيَرْوا ُك‬
‫ل َذِلكَ ِبَأّنُهْم َكّذُبوا ِبَآَياِتَنككا َوَكككاُنوا‬
ً ‫سِبي‬
َ ‫خُذوُه‬
ِ ‫ي َيّت‬
ّ ‫ل اْلَغ‬
َ ‫سِبي‬
َ ‫ن َيَرْوا‬
ْ ‫َوِإ‬
﴾7:146﴿ ‫ن‬
َ ‫غاِفِلي‬
َ ‫عْنَها‬
َ
(7:146) I shall turn away from My signs those who, without any right, behaved haughtily
in the earth, *104 even if they may, witness each and every, sign, they shall not believe
therein. And even if they see the right path, they shall still not follow it; but if they see
the path of error. they shall choose it for their path. This is because they rejected Our
signs as false and were heedless to them.
*104. It is God's law that evil-doers do not and cannot take any lesson from the otherwise
instructive events which they observe. The arrogance mentioned here refers to man's delusion
that he is on a higher plane than God's creatures and servants. It is this which prompts him to
disregard God's command and to adopt an attitude which suggests that he neither considers
himself God's servant, nor God his Lord. Such egotism has no basis in fact; it is sheer vanity.
For as long as man live on God's earth, what can justify his living as a servant of anyone other
than the Lord of the universe? It is for this reason that the Qur'an declares this arrogance to be
'without any right'.
(৭:১৪৬) েকান পকার অিধকার ছাড়াই যারা পৃিথবীেত বড়াই কের েবড়ায়, ১০৪ শীঘই আমার িনদশরনসমূহ েথেক আিম তােদর দৃিষ িফিরেয় েদেবা৷
তারা আমার েয েকান িনদশরন েদখেলও তার পিত ঈমান আনেব না৷ তােদর সামেন যিদ েসাজা পথ এেস যায় তাহেল তারা তা গহণ করেবনা৷ আর যিদ
বঁাকা পথ েদখেত পায় তাহেল তারা ওপর চলেত আরম করেব৷ কারণ তারা আমার িনদশরনসমূহেক িমথযা বেলেছ এবং েসগেলার বযাপাের েবপেরায়া
েথেকেছ৷
১০৪. অথরাৎ আমার পাকৃিতক আইন অনুযায়ী এ ধরেনর েলােকরা েকান িশকাপদ ঘটনা অনুধাবন করেত এবং েকান িশকানীয় িবষয় েথেক িশকা লাভ করেত পাের না৷
"বড়র আসন গহণ করা" বা "বড়াই কের েবড়ােনা" বাকাংশিট কুরআন মিজেদ এমন এক অেথর বযবহত হেয়েছ , যা েথেক বুঝা যায় েয, বানা িনেজেক আলাহর বেনগী
করার ঊেধর সান েদয়, আলাহর আেদশ িনেষেধর েকান ধার ধাের না এবং এমন একিট কমরপদিত অবলমন কের যােত মেন হয়, েস আলাহর বানা নয় এবং আলাহ তার রব
নয়৷ একিট িমথযা ও ভূয়া আতমিরতা ছাড়া এ ধরেনর অহংকােরর েকান অথর হয় না৷ কারণ আলাহর যমীেন বাস কের েকান মানুেষর অেনযর বানা হেয় থাকার েকান
অিধকার েনই ৷ তাই এখােন বলা হেয়েছঃ "েকান পকার অিধকার ছাড়াই যারা পৃিথবীেত বড়াই কের েবড়ায়"৷

ّ ‫ن ِإ‬
‫ل‬
َ ‫جككَزْو‬
ْ ‫ل ُي‬
ْ ‫عَماُلُهْم َه ك‬
ْ ‫ت َأ‬
ْ َ‫حِبط‬
َ ‫خَرِة‬
ِ‫ل‬
َْ ‫ن َكّذُبوا ِبَآَياِتَنا َوِلَقاِء ا‬
َ ‫َواّلِذي‬
﴾7:147﴿ ‫ن‬
َ ‫َما َكاُنوا َيْعَمُلو‬
(7:147) Vain are the deeds of those who reject Our signs as false and to the meeting of
the Hereafter. *105Shall they be recompensed, except according to their deeds?'
*105. That the acts of such persons are vain and fruitless is evident from the fact that the
acceptance of man's acts by God is subject to two conditions. First, one's acts should conform
to the Law laid down by God. Second, man should be prompted by the desire to achieve
success in the Hereafter rather than merely in this world. If these conditions are not fulfilled, a

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

person's acts will be of no consequence. He who performs an act in defiance of God's guidance,
is guilty of rebellion and is undeserving of God's reward. He who acts only to obtain worldly
success, is neither entitled to nor should expect any reward from God in the Hereafter. If
someone uses another person's land contrary to his wish, what else can he expect from him than
punishment? The same holds true for he who deliberately uses someone's land, knowing well
that he is not entitled to any produce after the restoration of that land to its owner. There is no
justification for him to expect any share of the produce of that land.
(৭:১৪৭) আমার িনদশরনসমূহেক যারাই িমথযা বলেছ এবং আেখরােতর সাকােতর কথা অসীকার কেরেছ তােদর সমস কমরকাণ বযথর হেয় েগেছ ৷ ১০৫
েযমন কমর েতমন ফল- এ ছাড়া েলােকরা িক আর েকান পিতদান েপেত পাের?
১০৫. বযথর হেয় েগেছ অথরাৎ ফলদায়ক হয়িন এবং তা অলাভজনক ও অথরহীন হেয় পেড়েছ৷কারণ আলাহর দরবাের মানুেষর সমস পেচষা ও কমর সফল হওয়া িনভরর কের
দিট িবষেয়র ওপর৷এক, েসই পেচষা ও কমরিট অনুিষত হেত হেব শরীয়েতর আইেনর আওতাধীন৷ দই, দিনয়ার পিরবেতর আেখরােতর সাফলয হেব েসই পেচষা ও কেমরর
লকয৷ এ শতর দিট পূণর না হেল অিনবাযরভােবই সমস কৃতকমর পণ বা বৃথা হেয় যােব৷েয বযিক আলাহর েহদায়াত গহণ কের না বরং তা েথেক মুখ িফিরেয় িবেদাহতক
পদিতেত দিনয়ায় কাজ কের, েস েকানকেমই আলাহর কােছ েকান পকার পিতদােনর আশা করার অিধকার রােখ না৷আর েয বযিক দিনয়ার জেনযই সব িকছু কের এবং
আেখরােতর জেনয িকছুই কের না, েসাজা কথা বলা যায়, আেখরাত তার েকান সুফল লােভর আশা করা উিচত নয়৷ এবং েসখােন তার েকান ধরেনর সুফল লাভ করার
েকান কারণও েনই৷ আমার মািলকানাধীন জিমেক েকান বযিক যিদ আমার অনুেমাদন ছাড়াই আমার ইচার িবরেদ বযবহার করেত থােক তাহেল আমার পক েথেক শািস
পাওয়া ছাড়া েস আর িকেসর পতযাশা করেত পাের? আর েসই জিমর ওপর অনযায়ভােব িনেজর দখলী সত বহাল রাখার সময় যিদ এ সমস কাজ েস িনেজ এ উেদেশযই
কের থােক েয, যত িদন আসল মািলক তার অনযায় ধৃষতােক পশয় িদেয় যােচ ততিদন পযরন েস এ দারা লাভবান হেত থাকেব এবং জিম পুনরায় মািলেকর দখেল চেল
যাওয়ার পর েস আর তা েথেক লাভবান হবার আশা করেব না বা লাভবান, হেত চাইেব না, তাহেল এ ধরেনর অৈবধ দখলদােরর কাছ েথেক িনেজর জিম েফরত েনবার পর
িক কারেণ আিম আবার িনেজর উৎপন ফসেলর িকছু অংশ অনথরক তােক িদেত থাকেবা?

‫خ كَواٌر َأَل كْم‬
ُ ‫س كًدا َل كُه‬
َ‫ج‬
َ ‫ل‬
ً‫ج‬
ْ‫ع‬
ِ ْ‫حِلّيِه كم‬
ُ ‫ن‬
ْ ‫ن َبْعِدِه ِمك‬
ْ ‫سى ِم‬
َ ‫َواّتخََذ َقْوُم ُمو‬
﴾7:148﴿ ‫ن‬
َ ‫ظاِلِمي‬
َ ‫خُذوُه َوَكاُنوا‬
َ ‫ل اّت‬
ً ‫سِبي‬
َ ‫ل َيْهِديِهْم‬
َ ‫ل ُيَكّلُمُهْم َو‬
َ ‫َيَرْوا َأّنُه‬
(7:148) And in the absence of Moses *106 his people made the image of a calf from their
ornaments, which lowed. Did they not observe that it could neither speak nor give them
any guidance? And still they made it an object of worship. They were indeed wrongdoing. *107
*106. Here reference is made to the forty days which Moses spent on Mount Sinai in
compliance with God's command when his people remained in the plain at the foot of the
mountain called Maydan al-Rahah.
*107. Their cow-worship was another manifestation of the Israelites' slavish attachment to the
Egyptian traditions at the time of the Exodus. It is well-known that cow-worship was
widespread in Egypt and it was during their stay there that the Israelites developed this strange
infatuation. The Qur'an also refers to their inclination to cow-worship: 'Their hearts were
overflowing with love for the calf because of their unbelief' (al-Baqarah 2: 93). What is more
surprising about their turn to idolatry is that it took place just three months after their escape
from Egypt. During that time they had witnessed the parting of the sea, the drowning of
Pharaoh, and their own deliverance from what otherwise seemed inescapable slavery, to the
Egyptians. They knew well that all those events had taken place owing to the unmistakable and

direct interference of the all-powerful God. Yet they had the audacity to demand that their
Prophet should make for them a false god that they might worship. Not only that, soon after
Moses left them for Mount Sinai, they themselves contrived a false god. Disgusted with such
conduct on the part of the Israelites, some Prophets have likened their people to a
nymphomaniac who loves all save her husband and who is unfaithful to him even on their
nuptial night.
(৭:১৪৮) মূসার অনুপিসিতেত ১০৬ তার জািতর েলােকরা িনেজেদর অলংকার িদেয় বাছুেরর মুিতর ৈতরী করেলা৷ তার মুখ িদেয় গরর মত হামা রব েবর
হেতা৷ তারা িক েদখেত েপেতা না েয, ঐ বাছুর তােদর সােথ কথাও বেল না আর েকান বযাপাের তােদর েক পথিনেদরশনাও েদয় না? িকন এরপর ও
তােক মাবুেদ পিরণত করেলা৷ বসত তারা িছল বড়ই জােলম৷ ১০৭
১০৬. অথরাৎ ৪০ িদন পযরন হযরত মূসা আলাইিহস সালাম যখন আলাহর ডােক িসনাই পাহােড় িগেয় অবসান কেরিছেলন এবং তার জািত পাহােড়র পাদেদেশ আর রাহা
পানের অবসান করিছল েসই সময়৷
১০৭. বনী ইসরাঈলীরা েয িমসরীয় কৃিষ িনেয় িমসর তযাগ কেরিছল এিট তার িদতীয় পকাশ৷ িমসের েগা-পূজা ও গরর পিবতার েয ধারণা পচিলত িছল তােত এ জািতিট
এমন গভীরভােব পভািবত হেয়িছল েয, এ সমেকর কুরআেন বলেছঃ ----------অথরাৎ "তােদর মেনর গভীের েগা-বৎেসর ভাবমূিতর বদমূল হেয় িগেয়িছল" ৷ সবেচেয়
িবসেয়র বযাপার হেচ এই েয, সেবমাত িতন মাস হেলা তারা িমসর তযাগ কেরিছল৷সাগেরর িদধা িবভক হেয় যাওয়া, সাগর বুেক েফরাউেনর সিলল সমািধ লাভ করা,
এমন একিট দাসেতর িনগড় েভেঙ তােদর েবিরেয় আসা যা ভাঙার েকান আশাই িছল না এবং এ ধরেনর আেরা িবিভন ঘটনা এখেনা তােদর সৃিতেত জীবন িছল৷তারা খুব
ভাল কেরই জানেতা , এসব িকছুই আলাহর অসীম কমতা বেলই সমব হেয়িছল৷ অনয কােরার শিকর সামানযতম অংশও এেত িছল না৷ িকন এরপরও তারা পথেম নবীর
কােছ একিট কৃিতম ইলােহর চািহদা েপশ করেলা, তারপর নবীর অনুপিসিতর পথম সুেযােগই বনী ইসরাঈেলর েকান একিট মূিতর বািনেয় েফলেলা৷ এ ধরেনর কাযরকলােপর
কারেণই বনী ইসরাঈেলর েকান েকান নবী িনেজর জািতেক এমন এক বযিভচারী নারীর সােথ তুলনা কেরেছন, েয িনেজর সামী ছাড়া অনয েকান পুরেষর সােথ েপম কের
এবং িবেয়র পথম রােতই েয সামীর সােথ িবশাসঘাতকতা করেত িদধা কের না৷

‫حْمَنا َربَّنككا‬
َ ‫ن َلْم َيْر‬
ْ ‫ط ِفي َأْيِديِهْم َوَرَأْوا َأّنُهْم َقْد ضَّلوا َقاُلوا َلِئ‬
َ ‫سِق‬
ُ ‫َوَلّما‬
﴾7:149﴿ ‫ن‬
َ ‫سِري‬
ِ ‫خا‬
َ ‫ن اْل‬
َ ‫ن ِم‬
ّ ‫َوَيْغِفْر َلَنا َلَنُكوَن‬
(7:149) And when they were afflicted with remorse and realized that they had fallen into
error, they said: 'If our Lord does not have mercy on us and does not pardon us, we shall
be among the losers.'
(৭:১৪৯) তারপর যখন তােদর পতারণার জাল িছন হেয় েগেলা এবং তারা েদখেত েপেলা েয, আসেল তারা পথভষ হেয় েগেছ তখন বলেত লাগেলাঃ
যিদ আমােদর রব আমােদর পিত অনুগহ না কেরন এবং আমােদর কমা না কেরন, তাহেল আমরা ধংস হেয় যােবা৷

ْ‫خَلْفُتُموِني ِم كن‬
َ ‫سَما‬
َ ‫ل ِبْئ‬
َ ‫ن َأسًِفا َقا‬
َ ‫ضَبا‬
ْ ‫غ‬
َ ‫سى ِإَلى َقْوِمِه‬
َ ‫جَع ُمو‬
َ ‫َوَلّما َر‬
‫جّرُه ِإَلْيكِه‬
ُ ‫خيِه َي‬
ِ ‫س َأ‬
ِ ‫خَذ ِبَرْأ‬
َ ‫ح َوَأ‬
َ ‫لْلَوا‬
َْ ‫جْلُتْم َأْمَر َرّبُكْم َوَأْلَقى ا‬
ِ‫ع‬
َ ‫َبْعِدي َأ‬
َ ‫ت ِبك‬
‫ي‬
ْ ‫شكِم‬
ْ ‫ل ُت‬
َ ‫ضَعُفوِني َوَكككاُدوا َيْقُتُلككوَنِني َف‬
ْ ‫سَت‬
ْ ‫ن اْلَقْوَم ا‬
ّ ‫ن ُأّم ِإ‬
َ ‫ل اْب‬
َ ‫َقا‬
﴾7:150﴿ ‫ن‬
َ ‫ظاِلِمي‬
ّ ‫جَعْلِني َمَع اْلَقْوِم ال‬
ْ ‫ل َت‬
َ ‫عَداَء َو‬
ْ‫ل‬
َْ ‫ا‬
(7:150) And when Moses returned to his people, full of wrath and sorrow, he said: 'Vile
is the course you have followed in my absence. Could you not patiently wait for the
decree of your Lord?' And he threw down the Tablets [of the Law] and took hold of his
brother's head, dragging him to himself. Aaron said: 'My mother's son, the people
overpowered me and almost killed me. So let not my enemies gloat over me, and do not
number me among the wrong-doing folk.' *108

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

*108. The above Qur'anic verse absolves Aaron of the charge levelled against him by the Jews.
According to the Biblical version of the story of calf-worship, however, it was Aaron who had
made the golden calf for the people of Israel. To quote:
When the people saw that Moses delayed to come down from the mountain, the people
gathered themselves together to Aaron, and said to him, 'Up, make up gods who shall go before
us; as for this Moses, the man who brought us up out of the land of Egypt, we do not know
what has become of him.' And Aaron said to them, 'Take off the rings of gold which are in the
ears of your wives, your sons, and your daughters, and bring them to me.' So all the people took
off the rings of gold which were in their ears, and brought them to Aaron. And he received the
gold at their hand, and fashioned it with a graving tool, and made a molten calf; and they said,
'These are your gods, O Israel, who brought you up out of the land of Egypt.' When Aaron saw
this, he built an altar before it; and Aaron made proclamation and said, 'Tomorrow shall be a
feast to the Lord.' And they rose up early on the morrow, and offered burnt offerings and
brought peace offerings; and the people sat down to eat and drink, and rose up to play (Exodus
32: 1--6).
The Qur'an, however, refutes the above account at many places and points out that it was
Samiri the rebel of God rather than Aaron the Prophet who committed that heinous sin. (For
details see Ta Ha 20: 90 ff.)
Strange though it may appear, the Israelites maligned the characters of those very people whom
they believed to be the Messengers of God. The accusations they hurled at them included such
heinous sins as polytheism, sorcery, fornication, deceit and treachery. Needless to say,
indulgence in any of these sins is disgraceful for even an ordinary believer and decent human
being, let alone Prophets. In the light of the history of Israeli morals, however, it is quite
understandable why they maligned their own Prophets. In times of religious and moral
degeneration when both the clergy and laity were steeped in sin and immorality, they tried to
seek justification for their misdeeds. In order to sedate their own consciences they ascribed the
very sins of which they were guilty to their Prophets and then their own inability to refrain from
sins on the grounds that not even the Prophets could refrain.
The same characteristic is evident in Hinduism. When the Hindus reached the lowest point in
their moral degeneration, they produced a literature which presents a very perverted image of
Hindu ideals. This literature portrayed their gods, hermits and monks as crass sinners. In doing
so, they suggested that since such noble people could not refrain from indulging in grave sins,
ordinary mortals are inevitably bound to commit them. Moreover, a person's indulgence in
immoral acts should not make him remorseful for the same acts were committed earlier by their
monks and hermits.

(৭:১৫০) ওিদেক মূসা িফের এেলন তার জািতর কােছ কুদ ও কুব অবসায়৷ এেসই বলেলনঃ আমার অনুপিসিতেত েতামরা আমার বড়ই িনকৃষ
পিতিনিধত করেছা! েতামরা িক িনেজেদর রেবর হকুেমর অেপকা করার মত এতটুকু সবরও করেত পারেল না? েস ফলকগেলা ছুঁেড় িদল এবং িনেজর
ভাইেয়র (হারন ) মাথার চুল ধের েটেন আনেলা৷ হারন বলেলাঃ েহ আমার সেহাদর! এ েলাকগেলা আমােক দবরল কের েফেলিছল এবং আমােক
হতযা করার উপকম কেরিছল৷ কােজই তুিম শতর কােছ আমােক হাসযমদ কেরা না এবং আমােক এ জােলম সমদােয়র অনভুরক কেরা না৷ ১০৮
১০৮. ইহদীরা েজারপূবরক হযরত হারেনর ওপর একিট জঘণয অপবাদ আেরাপ কের আসিছল৷ কুরআন মজীদ এখােন তা খণন কেরেছ৷ বাইেবেল বাছুর পূজার ঘটনািট
িনেমাকভােব বিণরত হেয়েছঃ হযরত মূসার যখন পাহাড় েথেক েনেম আসেত েদির হেলা তখন বনী ইসরাঈলীরা অৈবধ হেয় হযরত হারনেক বলেলা আমােদর জেনয একিট
মাবুদ বািনেয় দাও৷ হযরত হারন তােদর ফরমােয়শ অনুযায়ী একিট েসানার বাছুর বািনেয় িদেলন৷ বাছুরিটেক েদেখই বনী ইসরাঈলীরা বেল উঠেলা, েহ বনী ইসরাঈল! এ
েতা েতামােদর েসই েখাদা, যা েতামােদরেক িমসর েথেক েবর কের িনেয় এেসেছ৷ তারপর হযরত হারন তার জেনয একিট েবদী িনমরাণ করেলন, এক েঘাষনার মাধযেম
পেরর িদন সমস বনী ইসরাঈলেক একিতত করেলন এবং েসই েগা-েদবতার েবদীমূেল কুরবানী িদেলন৷ (যাতা পুসক ৩২: ১-৬) কুরআন মজীেদর একািধক সােন এ িমথযা
বণরনার পিতবাদ করা হেয়েছ, এবং যথাথর সতয ঘটনা বণরনা কের েসখােন বলা হেয়েছ, আলাহর নবী হারন এ ঘৃণয অপরাধিট কেরনিন বরং এিট কেরিছল আলাহর দশমন ও
িবেদাহী সােমরী৷ (িবসািরত জানার জেনয েদখুন সূরা তা-হা ৯০-৯৪আয়াত)৷
আপাতদৃিষেত বযাপারিট বড় িবসয়কর মেন হয়৷ বনী ইসরাঈলীরা যেদরেক আলাহর নবী বেল মােন তােদর মধয েথেক কােরার চিরেত তার কলংক েলপন না কের ছােড়িন,
আবার কলংক েলপনও কেরেছ এমন িবশীভােব , যা শরীয়াত ও ৈনিতকতার দৃিষেত িনকৃষতম অপরাধ িবেবিচত হয়৷ েযমন ,িশরক, যাদ, বযিভচার, িমথযাচার, পতারণা
এবং এমিন ধরেনর আেরা িবিভন জঘণয গনােহর কাজ, েযগেলােত িলপ হওয়া একজন নবী েতা দূেরর কথা সাধারণ মুিমন ও ভদেলােকর পেকও মারাতক লজার বযাপার
মেন করা হয়৷বাহযত কথািট বড়ই অদুত মেন হয়৷ িকন বনী ইসরাঈলীেদর ৈনিতকতার ইিতহাস অধযায়ন করেল জানা যায়,আসেল এ জািতিটর বযাপাের এিট েমােটই
িবসয়কর নয়৷ এ জািতিট যখন ৈনিতক ও ধমরীয় অধপতেনর িশকার হেলা এবং তােদর সাধারণ মানুষ েথেক শর কের িবিশষ বযিকবগর পযরন এমনিক উলামা, মাশােয়খ ও
দীনী পদাধীকারী বযিকরাও েগামরাহী ও চিরতহীনতার সয়লােব েভেস েগেলা তখন তােদর অপরাধী িবেবক িনেজেদর এ অবসার জনয ওযর ৈতরী করেত শর কের িদল এবং
েযসব অপরাধ তারা িনেজরা কের চলিছল েসগেলা সবই নবীেদর সােথ সংিশষ কের তােদর নবীেদর ঘােড় চািপেয় িদল৷ এভােব তারা বলেত চাইেলা েয, নবীরাই যখন এসব
েথেক িনেজেদরেক বঁাচােত পােরন িন তখন অেনযরা আর েকমন কের বঁাচেত পাের? এ বযাপাের িহনুেদর সােথ ইহদীেদর অবসার িমল রেয়েছ৷ িহনুেদর মেধযও যখন ৈনিতক
অধপতন চরম পযরােয় েপৌেছ তখন এমন ধরেনর সািহতয সৃিষ হেয়িছল, েযখােন েদবতা, মুিন-ঋিষ, অবতার তথা জািতর যারা সেবরাতম আদশর বযিকত িছল তােদর সবার
গােয় কলংক েলপন কের েদয়া হেয়িছল৷এভােব তারা বলেত েচেয়িছল েয, এত বড় মহান বযিকতরাই যখন এসব খারাপ কােজ িলপ হেত পাের তখন আমরা সাধারণ
মানুষরা আর েকান ছার? আর এ কাজগেলা যখন এ ধরেনর মহীম মযরাদাসমন বযিকেদর জেনয লজাকর নয় তখন আমােদর জেনযই বা তা কলংকজন হেত যােব েকন?

‫ح كُم‬
َ ‫ت َأْر‬
َ ‫ك َوَأْن ك‬
َ ‫حَمِت ك‬
ْ ‫خْلَنككا ِفككي َر‬
ِ ‫خككي َوَأْد‬
ِ‫ل‬
َِ ‫غِف كْر ِلككي َو‬
ْ ‫با‬
ّ ‫ل َر‬
َ ‫َقككا‬
﴾7:151﴿ ‫ن‬
َ ‫حِمي‬
ِ ‫الّرا‬
(7:151) Thereupon Moses said: 'O Lord! Grant forgiveness upon me and my brother and
admit us to Your Mercy, for You are most merciful of the merciful.'
(৭:১৫১) তখন মূসা বলেলাঃ েহ আমার রব! আমােক ও আমার ভাইেক কমা কেরা এবং েতামার অনুগেহর মেধয আমােদর দািখল কের নাও, তুিম
সবচাইেত েবশী অনুগহকারী৷

‫حَيككاِة‬
َ ‫ن َرّبِهكْم َوِذّلكٌة ِفككي اْل‬
ْ ‫ب ِم‬
ٌ ‫ض‬
َ ‫غ‬
َ ‫سَيَناُلُهْم‬
َ ‫ل‬
َ‫ج‬
ْ ‫خُذوا اْلِع‬
َ ‫ن اّت‬
َ ‫ن اّلِذي‬
ّ ‫ِإ‬
﴾7:152﴿ ‫ن‬
َ ‫جِزي اْلُمْفَتِري‬
ْ ‫ك َن‬
َ ‫الّدْنَيا َوَكَذِل‬
(7:152) In reply they were told: 'Verily those who worshipped the calf will certainly
incur indignation from their Lord, and will be abased in the life of this world. Thus do
We reward those who fabricate lies.
(৭:১৫২) (জওয়ােব বলা হেলা) যারা বাছুরেক মাবুদ বািনেয়েছ তারা িনশয়ই িনেজেদর রেবর েকােধর িশকার হেবই এবং দিনয়ার জীবন লািঞত হেব৷
িমথযা রচনাকারীেদরেক আিম এমিন ধরেনর শািসই িদেয় থািক৷

‫ن َبْعِدَها‬
ْ ‫ك ِم‬
َ ‫ن َرّب‬
ّ ‫ن َبْعدَِها َوَآَمُنوا ِإ‬
ْ ‫ت ُثّم َتاُبوا ِم‬
ِ ‫سّيَئا‬
ّ ‫عِمُلوا ال‬
َ ‫ن‬
َ ‫َواّلِذي‬
﴾7:153﴿ ‫م‬
ٌ ‫حي‬
ِ ‫َلَغُفوٌر َر‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(7:153) As for those who do evil, and later repent and have faith, such shall find their
Lord All-Forgiving, All-Compassionate after (they repent and believe)
(৭:১৫৩) আর যারা খারাপ কাজ কের তারপর তাওবা কের েনয় এবং ঈমান আেন, এ েকেত িনিশতভােব এ তাওবা ও ঈমােনর পর েতামার রব
কমাশীল ও করণাময়৷

‫خِتَها ُهكًدى‬
َ ‫سك‬
ْ ‫ح َوِفككي ُن‬
َ ‫لْلكَوا‬
َْ ‫خكَذ ا‬
َ ‫ب َأ‬
ُ ‫ضك‬
َ ‫سى اْلَغ‬
َ ‫ن ُمو‬
ْ‫ع‬
َ ‫ت‬
َ ‫سَك‬
َ ‫َوَلّما‬
﴾7:154﴿ ‫ن‬
َ ‫ن ُهْم ِلَرّبِهْم َيْرَهُبو‬
َ ‫َوَرحَْمٌة ِلّلِذي‬
(7:154) And when the anger of Moses was stilled, he took up the Tablets again, the text
of which comprised guidance and mercy to those who fear their Lord.
(৭:১৫৪) তারপর মূসার েকাধ পশিমত হেল েস ফলকগিল উিঠেয় িনল৷ যারা িনেজেদর রবেক ভয় কের তােদর জনয ঐ সব ফলেক িছল পথিনেদরশ ও
রহমত৷

َ‫جَفُة َقككال‬
ْ ‫خَذْتُهُم الّر‬
َ ‫ل ِلِميَقاِتَنا َفَلّما َأ‬
ً‫ج‬
ُ ‫ن َر‬
َ ‫سْبِعي‬
َ ‫سى َقْوَمُه‬
َ ‫خَتاَر ُمو‬
ْ ‫َوا‬
‫سكَفَهاُء ِمّنككا‬
ّ ‫ل ال‬
َ ‫ي َأُتْهِلُكَنا ِبَمككا َفَعك‬
َ ‫ل َوِإّيا‬
ُ ‫ن َقْب‬
ْ ‫ت َأْهَلْكَتُهْم ِم‬
َ ‫شْئ‬
ِ ‫ب َلْو‬
ّ ‫َر‬
‫ت َوِلّيَنككا‬
َ ‫شككاُء َأْنك‬
َ ‫ن َت‬
ْ ‫شاُء وََتْهكِدي َمك‬
َ ‫ن َت‬
ْ ‫ل ِبَها َم‬
ّ‫ض‬
ِ ‫ك ُت‬
َ ‫ل ِفْتَنُت‬
ّ ‫ي ِإ‬
َ ‫ن ِه‬
ْ ‫ِإ‬
﴾7:155﴿ ‫ن‬
َ ‫خْيُر اْلَغاِفِري‬
َ ‫ت‬
َ ‫حْمَنا َوَأْن‬
َ ‫غِفْر َلَنا َواْر‬
ْ ‫َفا‬
(7:155) And out of his people Moses singled out seventy men for Our appointment.
*109Then, when violent shaking seized them, he addressed his Lord: 'Had You willed, O
my Lord, You could have destroyed them and me long ago. Will You destroy us for
what the fools amongst us did? That was nothing but a trial from You whereby You
mislead whom You will and guide whom You will. *110You alone are our guardian.
Forgive us, then, and have mercy upon us. You are the best of those who forgive.
*109. Moses was summoned for the second time to Mount Sinai along with seventy chiefs of
the nation in order that they might seek pardon for their calf-worship and renew their covenant
with God. Reference to this event is not found in the Bible and Talmud. They simply mention
that Moses was summoned to receive new tablets as replacements for the ones he had thrown
down and broken. (Cf. Exodus 34.)
*110. When a people are put to the test it is an occasion of crucial importance for it helps to
distinguish the righteous from the wicked. Like a winnow, it separates out of the mass the
useful from the useless. Hence in his wisdom God subjects people to tests. Those who
successfully pass through them, owe their success to the support and guidance they receive
from God. As for those who are unsuccessful, their failure is the result of their not receiving

that support and guidance. This does not detract from the fact that men neither arbitrarily
receive or are denied God's support and guidance. Both extending and withholding support and
guidance follow a rule which is based on wisdom and justice. The fact, however, remains that
man can succeed in the test to which he is put only if God supports and guides him.
(৭:১৫৫) আর মূসা (তার সােথ) আমার িনধরািরত সমেয় হািযর হবার জেনয িনেজর জািতর সতর জন েলাকেক িনবরািচত করেলা৷ ১০৯ যখন তারা
একিট ভয়াবহ ভূিমকেম আকান হেলা তখন মূসা বলেলাঃ েহ পভূ! তুিম চাইেল আেগই এেদরেক ও আমােক ধংস কের িদেত পারেত৷ আমােদর
মধয েথেক িকছু িনেবরাধ েলাক েয অপরাধ কেরিছল েস জেনয িক তুিম আমােদর সবাইেক ধংস কের েদেব? এিট েতা িছল েতামার পক েথেক একিট
পরীকা, এর মাধযেম তুিম যােক চাও পথভষ কেরা আবার যােক চাও েহদায়াত দান কেরা৷ ১১০ তুিমই েতা আমােদর অিভভাবক৷ কােজই আমােদর মাফ
কের দাও এবং আমােদর পিত অনুগহ কেরা৷ কমাশীলেদর মেধয তুিমই েশষ৷
১০৯. জাতীয় পিতিনিধেদর তলব করার একিট িবেশষ উেদশয িছল৷ জািতর ৭০ জন পিতিনিধ িসনাই পাহােড় আলাহর সমীেপ হািযর হেয় সমগ জািতর পক েথেক েগাবৎস পূজার অপরােধর কমা চাইেব এবং নতুন কের আলাহর আনুগেতযর অংগীকার করেব, এই িছল এর উেদশয৷ বাইেবেল ও তালমুেদ এ িবষয়িটর উেলখ েনই৷ তেব হযরত
মূসা েয ফলকগিল ছুঁেড় িদেয় েভেঙ েফেলিছেলন েসগেলার বদেল অনয ফলক েদবার জেনয তঁােক িসনাই পাহােড় েডেক পাঠােনা হেয়িছল একথা অবিশয েসখােন উেলিখত
হেয়েছ৷ (যাতা পুসক ৩৪ অধযায়)৷
১১০. এর অথর হেচ, পেতযকিট পরীকাকাল মানুেষর জেনয চূড়ানই হেয় থােক৷ এ পরীকা চালুনীর মত একিট িমিশত দল েথেক কমরঠ েলাকগেলােক বাছাই কের িনেয়
অকমরনয েলাকগেলােক দূের িনেকপ কের দল েথেক আলাদা কের েদয়৷ এই ধরেনর পরীকা মােঝ মােঝ আসেত থােক, এটা আলাহর একিট কমর েকৌশল৷ এসব পরীকায়
যারা সফলকাম হয় তারা মূলত আলাহর সাহাযয ও পথিনদরেশই সাফলয লাভ কের থােক৷ আর যারা বযথর হয় তারা আলাহর সাহাযয ও পথিনেদরশ েথেক বিঞত হবার
কারেণই বযথরতার সমুখীন হয়৷ যিদও আলাহর পক েথেক সাহাযয ও পথিনেদরশনা লাভ করার ও একিট িনয়ম আেছ এবং এ িনয়মিট সমূণররেপ পজা ও ইনসােফর ওপর
িনভররশীল ৷ তবুও এিট একিট পমািণত সতয েয, পরীকায় কােরার সফলকাম বা অসফল হওয়া আসেল আলাহরই সাহাযয , অনুগহ ও পথিনেদরশনার ওপর িনভরর কের৷

َ‫خكَرِة ِإّنككا ُهكْدَنا ِإَلْيككَ َقككال‬
ِ‫ل‬
َْ ‫سكَنًة َوِفككي ا‬
َ‫ح‬
َ ‫ب َلَنا ِفي َهكِذِه الكّدْنَيا‬
ْ ُ‫َواْكت‬
‫سكَأْكتُُبَها‬
َ ‫شكيٍْء َف‬
َ ‫ل‬
ّ ‫ت ُكك‬
ْ ‫سكَع‬
ِ ‫حَمِتككي َو‬
ْ ‫شاُء َوَر‬
َ ‫ن َأ‬
ْ ‫ب ِبِه َم‬
ُ ‫صي‬
ِ ‫عَذاِبي ُأ‬
َ
﴾7:156﴿ ‫ن‬
َ ‫ن ُهمْ ِبَآَياِتَنا ُيْؤِمُنو‬
َ ‫ن الّزَكاَة َواّلِذي‬
َ ‫ن َوُيْؤُتو‬
َ ‫ن َيّتُقو‬
َ ‫ِلّلِذي‬
(7:156) And ordain for us what is good in this world and in the World to Come for to
You have we turned.’ He replied: 'I afflict whomsoever I wish with My chastisement. As
for My mercy, it encompasses everything. *111 will show mercy to those who abstain
from evil, pay Zakat and have faith in Our signs.'
*111. It is false to assume that the general rule underlying God's governance of His realm is
that of wrath which is occasionally tempered with mercy and benevolence. On the contrary, the
general rule is that of mercy and benevolence and wrath is the exception which is aroused when
man's transgression and rebellion exceed all reasonable limits.
(৭:১৫৬) আর আমােদর জনয এ দিনয়ার কলযাণ িলেখ দাও এবং আেখরােতরও , আমরা েতামার িদেক িফেরিছ৷ জওয়ােব বলা হেলাঃ শািস েতা আিম
যােক চাই তােক িদেয় থািক িকন আমার অনুগহ সব িজিনেসর ওপর পিরবযপ হেয় আেছ৷ ১১১ কােজই তা আিম এমন েলাকেদর নােম িলখেবা যারা
নাফরমানী েথেক দূের থাকেব, যাকাত েদেব এবং আমার আয়ােতর পিত ঈমান আনেব৷
১১১. অথরাৎ মহান আলাহ েয পদিতেত িবশ বযবসা পিরচালনা করেছন েসখােন েকাধ মুখয নয় এবং অনুগহ ও েমেহরবানী েসখােন মােঝ মেধয েদখা যায় এমন নয়৷বরং
অনুগহই েসখােন মূখয এবং সমগ িবশ বযবসা তারই ওপর পিতিষত ৷ আর েসখােন েকােধর পকাশ েকবল তখনই ঘেট যখন মানুেষর দম ও অহংকার সীমা ছািড়েয় যায়৷

‫عْنَدُهْم ِفككي‬
ِ ‫جُدوَنُه َمْكُتوًبا‬
ِ ‫ي اّلِذي َي‬
ّ ‫لّم‬
ُْ ‫ي ا‬
ّ ‫ل الّنِب‬
َ ‫سو‬
ُ ‫ن الّر‬
َ ‫اّلِذينَ َيّتِبُعو‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

ّ‫حكل‬
ِ ‫ن اْلُمْنَككِر َوُي‬
ِ ‫عك‬
َ ‫ف وََيْنَهككاُهْم‬
ِ ‫ل َيْأُمُرُهْم ِبككاْلَمْعُرو‬
ِ ‫جي‬
ِ ‫لْن‬
ِْ ‫الّتْوَراِة َوا‬
‫صككَرُهْم‬
ْ ‫عْنُهككْم ِإ‬
َ ‫ضككُع‬
َ ‫ث َوَي‬
َ ‫خَبككاِئ‬
َ ‫عَلْيِهككُم اْل‬
َ ‫حككّرُم‬
َ ‫ت َوُي‬
ِ ‫طّيَبككا‬
ّ ‫َلُهككُم ال‬
‫صكُروُه‬
َ ‫عكّزُروُه َوَن‬
َ ‫ن َآَمُنككوا ِبكِه َو‬
َ ‫عَلْيِهكْم َفاّلكِذي‬
َ ‫ت‬
ْ ‫ل اّلِتي َكاَن‬
َ‫ل‬
َ‫غ‬
ْ َ‫ل‬
ْ ‫َوا‬
﴾7:157﴿ ‫ن‬
َ ‫حو‬
ُ ‫ك هُُم اْلُمْفِل‬
َ ‫ل َمَعُه ُأوَلِئ‬
َ ‫َواّتبَُعوا الّنوَر اّلِذي ُأْنِز‬
(7:157) [To-day this mercy is for] those who follow the ummi Prophet, *112whom they
find mentioned in the Torah and the Gospel with them. *113 He enjoins upon them what
is good and forbids them what is evil. He makes the clean things lawful to them and
prohibits all corrupt things, *114 and removes from them their burdens and the shackles
that were upon them. *115 So those who believe in him and assist him, and succour him
and follow the Light which has been sent down with him, it is they who shall prosper.
*112. The preceding verse concludes God's response to Moses' prayer. This was the appropriate
moment to invite the Israelites to follow the Message preached by the Prophet Muhammad
(peace be on him). The upshot of what is being said here is that people can even now attain
God's mercy exactly as they could in the past. These conditions require that people should now
follow the Prophet Muhammad (peace be on him), since refusal to follow a Prophet after his
advent amounts to gross disobedience to God. Those who do not commit themselves to follow
the Prophet (peace be on him) cannot attain the essence of piety, no matter how hard they try to
make a pretence of it by observing the minor details of religious rituals generally associated
with piety.
Likewise, the Israelites had been told that paying Zakah was essential to win God's mercy.
However, payment of Zakah is meaningless unless one supports the struggle to establish the
hegemony of truth which was being carried on under the leadership of the Prophet (peace be on
him). For unless one spends money to exalt the word of God, the very foundation of Zakah are
lacking, even if a person spends huge amounts in the way of charity. They were also reminded
that they had been told in the past that God's mercy was exclusively for those who believed in
His Revelation. Now those who rejected the Revelation received by Muhammad (peace be on
him) could never be considered believers in Revelation no matter how zealously they claim to
believe in the Torah.
Reference to the Prophet (peace be on him) in this verse as umimi is significant as the Israelites
branded all other nations as Gentiles (ummis). Steeped in racial prejudice, they did not consider

members of other nations as their equals, let alone accept any person not belonging to them as a
Prophet. The Qur'an also states the Jewish belief that they would not be taken to ask for
whatever they might do to non-Jews. (See Al'Imran 3: 75.) Employing the same term which
they themselves had used, the Qur'an tells them that their destiny was linked with the ummi
Prophet. By obeying him they would become deserving of God's mercy. As for disobedience to
the Prophet (peace be on him). it would continue to arouse God's wrath which had been
afflicted upon them for centuries.
*113. Pointed and repeated reference to the coming of the Prophet Muhammad (peace be on
him) is made in the Bible. (See Deuteronomy 8: 15-19; Matthew 21: 33-46; John 1: 19-25; 14:
15-17, 25-30; 15: 25-6; 6: 7-15.)
*114. The Prophet declares the pure things which they had forbidden as lawful, and the impure
things which they had legitimized as unlawful.
*115. The Israelites had fettered their lives by undue restrictions which had been placed on
them by the legal hair-splitting of their jurists, the pietistic exaggerations of their spiritual
leaders, the introduction of superstitions and self-contrived laws and regulations by, their
masses. The Prophet, by relieving them of every unnecessary burden and releasing them from
every unjustified restriction, in fact liberated their shackled lives.
(৭:১৫৭) (আজ তারাই এ রহমেতর অংশীদার)যারা এ েপিরত উমী নবীর আনুগতয কের, ১১২ যার উেলখ িনকট এখােন তাওরাত ও ইনজীেল
িলিখত অবসায় পাওয়া যায়৷ ১১৩ েস তােদর সৎকােজর আেদশ েদয়, অসৎকােজর েথেক িবরত রােখ, তােদর জনয পাক পিবত িজিনসগেলা হালাল ও
নাপাক িজিনসগেলা হারাম কের ১১৪ এবং তােদর ওপর েথেক এমন সব েবাঝা নািমেয় েদয়৷যা তােদর ওপর চাপােনা িছল আর এমন সব বঁাধন েথেক
তােদরেক মুক কের যােত কের আবদ িছল৷ ১১৫ কােজই যারা তার পিত ঈমান আেন, তােক সাহাযয সহায়তা দান কের এবং তার সােথ অবতীণর
আেলােক রিশর অনুসরণ কের তারাই সফলতা লােভর অিধকারী৷
১১২. ওপেরর বাকযিট পযরন হযরত মূসার েদায়ার জওয়াব েশষ হেয় িগেয়িছল৷ অতপর সুেযাগ বুেঝ এবার সােথ সােথই বনী ইসরাঈলেক মুহামাদ সালালাহ আলাইিহ ওয়া
সালােমর আনুগতয করার দাওয়াত েদয়া হেয়েছ৷ এ ভাষণিটর মূল বকবয হেচ েতামােদর পিত আলাহর রহমত অবতীণর হবার জেনয হযরত মূসা (আ) এর যুেগ েযসব শতর
আেরাপ করা হেয়িছল আেজা েসগেলাই বহাল রেয় েগেছ৷আর েতামােদর এ নবীর পিত ঈমান আনার বযাপারিট আসেল েসই শতরগেলারই দাবী৷ েতামারেদর বলা হেয়িছল,
যারা আলাহর নাফরমানী েথেক দূের থােক আলাহর রহমত তােদরই পাপয৷ তাইেতা েয নবীেক আলাহ িনযুক কেরেছন তার েনতৃত গহণ করেত অসীকার করাই হেচ
আজেকর সবেচেয় বড় েমৌিলক নাফরমািন৷ কােজই যতিদন েতামরা এ নাফরমানী েথেক িবরত হেব না ততিদন েতামরা খুিটনািট ও েছাটখােটা তাকওয়ার িবষয় িনেয় যতই
মাতামািত কর না েকন তাকওয়ার িভিতমূল পিতিষত হেব না৷ েতামােদর বলা হেয়িছল যাকাতও আলাহর রহমেতর অংশ পাওয়ার একিট শতর ৷ তাইেতা আজ এ নবীর
েনতৃেত দীন পিতষার েয সংগাম চলেছ যতিদন তার সােথ েসই সংগাম অংশগহন করা হেব না ততিদন েকান পকার অথর বযয় যাকােতর সংজার অনভুরক হেব না৷ কােজই
েতামরা যতই দান খয়রাত কেরা, এবং নজর-িনয়াজ দাও না েকান এ পেথ অথর বযয় না করা পযরন যাকােতর েমৌিলক িভিতই পিতিষত হেব না৷ েতামােদর বলা হেয়িছল ,
যারা আলাহর আয়ােতর পিত ঈমান আেন আলাহর িনেজর রহমত েকবল তােদর জেনযই িলেখ েরেখেছন৷ তাইেতা আজ এ নবীর ওপর েযসব আয়াত নািযল হেচ েসগেলা
অসীকার কের েতামরা তাওরােতর পিত ঈমান রাখার যতই দাবী কর না েকন যতিদন েতামরা এ নবীর পিত ঈমান আনেব না ততিদন এ েশষ শতরিটও পূণর হেব না৷
এখােন নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর জেনয "উমী" শবিট বযবহারও বড়ই তাৎপযরপূণর৷ বনী ইসরাঈলীরা িনেজেদর ছাড়া দিনয়ার অনয জািতেদরেক উমী
(Gentiles)বলেতা ৷ েকান উমীর েনতৃত গহণ করা েতা দূেরর কথা উমীেদর জনয িনেজেদর সমান মানিবক অিধকার সীকার করাও িছল তােদর জািতয় মযরাদা ও
অহংকােরর পিরপনী৷তাই করআেনই বলা হেয়েছঃ ---------(উমীেদর ধন-সমদ েভাগ দখল করার জেনয আমােদর েকান জবাবিদিহ করেত হেব না৷(আেল ইমরান ৭৫
আয়াত)কােজই আলাহ এ েকেত তােদরই পিরভাষা বযবহার কের বলেছন, এখন েতা এ উমীর সােথ েতামােদর ভাগয জুেড় েদয়া হেয়েছ৷ এর আনুগতয সীকার করেল
েতামরা আমার অনুগেহর অংশ লাভ করেব, নয়েতা শত শত বছর েথেক েতামরা আমার েয েকােধর িশকার হেয় আসেছা এখেনা তাই েতামােদর কপােল েলখা হেব৷
১১৩. দৃষান সরপ তাওরাত ও ইনজীেলর িনেমাক সানগেলা েদখুন৷ এসব সােন মুহামাদ সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর আগমেনর বযাপাের ইিঙত করা হেয়েছ৷
েযমন,িদতীয় িববরণ ১৮:১৫-১৯,মিথ ২১:৩৩-৪৬,েযাহন ১:১৯-২১,েযাহন ১৪:১৫-১৭ এবং ২৫-৩০,েযাহন ১৫:২৫-২৬,েযাহন ১৬:৭-১৫)
১১৪. অথরাৎ েয পাক-পিবত িজিনসগেলা তারা হারাম কের েরেখেছ েসগেলা িতিন হালাল কের েদন এবং েযসব নাপাক ও অপিবত িজিনস তারা হালাল কের িনেয়েছ

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
েসগেলা িতিন হারাম গণয কেরন৷
১১৫. অথরাৎ তােদর ফকীহরা িনেজেদর আইনগত সূকতম িবেশষেণর মাধযেম আধযািতক েনতৃবগর িনেজেদর ধািমরকতা ও পরেহজগারীর অিত বাড়াবািড় সাহােযয এবং মূখর
সাধারণ মানুষ িনেজেদর কল কুসংসার ও মনগড়া নীিত -িনয়েমর েবড়াজােল আটেক তােদর জীবনেক েযসব েবাঝার নীেচ দািবেয় রােখ এবং েযসব বঁাধেন তােদরেক েবঁেধ
রােখ এ নবী েসই সমস েবাঝা নািমেয় েদন এবং সমস বঁাধন খুেল েদন৷

ِ‫سَمَوات‬
ّ ‫جِميًعا اّلِذي َلُه ُمْلكُ ال‬
َ ‫ل ِإَلْيُكْم‬
ِّ ‫ل ا‬
ُ ‫سو‬
ُ ‫س ِإّني َر‬
ُ ‫ل َيا َأّيَها الّنا‬
ْ ‫ُق‬
ّ ‫ل َوَرسُككوِلِه الّنِبك‬
‫ي‬
ِّ ‫ت َفكَآِمُنوا ِبككا‬
ُ ‫حِيككي َوُيِميك‬
ْ ‫ل ُهَو ُي‬
ّ ‫ل ِإَلَه ِإ‬
َ ‫ض‬
ِ ‫لَْر‬
ْ ‫َوا‬
﴾7:158﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َوَكِلَماِتِه َواّتِبُعوهُ َلَعّلُكْم َتْهَتُدو‬
ِّ ‫ن ِبا‬
ُ ‫ي اّلِذي ُيْؤِم‬
ّ ‫لّم‬
ُْ ‫ا‬
(7:158) [Say, O Muhammad]: 'O men! I am Allah's Messenger to you all - of Him to
Whom belongs the dominion of the heavens and the earth. There is no god but He. He
grants life and deals death. Have faith then, in Allah and in His Messenger, the ummi
Prophet who believes in Allah and His words; and follow him so that you may be guided
aright.'
(৭:১৫৮) েহ মুহামাদ ! বেল দাও, েহ মানব সমদায়, আিম েতামােদর জনয েসই আলাহর রসূল িহেসেব এেসিছ, িযিন পৃিথবী ও আকাশ মণলীর
সাবরেভৌম কতৃরেতর অিধকারী৷ িতিন ছাড়া আর েকান ইলাহ েনই৷ িতিনই জীবন দান কেরন এবং িতিন মৃতুয ঘটান৷ কােজই ঈমান আেনা আলাহর
পিত এবং তার েপিরত েসই িনরকর নবীর পিত , েয আলাহ ও তঁার বাণীর পিত ঈমান আেন এবং তার আনুগতয কের৷ আশা করা যায়,এভােব
েতামরা সিঠক পথ েপেয় যােব৷

﴾7:159﴿

َ ‫ق َوِبهِ َيْعِدُلو‬
‫ن‬
ّ‫ح‬
َ ‫ن ِباْل‬
َ ‫سى ُأّمٌة َيْهُدو‬
َ ‫َوِمنْ َقْوِم ُمو‬

(7:159) Among the people of Moses' *116 there was a party who guided others in the way
of the truth and established justice in its light. *117
*116. This marks the resumption of the main theme of the discourse which had been interrupted
by the parenthesis (see verses 157-8) calling people to affirm the prophethood of Muhammad
(peace be on him).
*117. The translators generally render the verse as the following:
Of the people of Moses there is a section who guide and do justice in the light of truth.
(Translation by Abdullah Yusuf Ali.)
They do so because, in their view, the present verse describes the moral and intellectual state of
the Israelites at the time when the Qur'an was revealed. However, the context seems to indicate
that the above account refers to the state of the Israelites at the time of the Prophet Moses.
Thus, the purpose of the verse is to emphasize that even in the days of their calf-worship when
God rebuked them, all members of Israel were not corrupt; that a sizeable section of them was

righteous.
(৭:১৫৯) মূসার ১১৬ জািতর মেধয এমন একিট দলও িছল যারা সতয অনুযায়ী পথিনেদরশ িদেতা এবং সতয অনুযায়ী ইনসাফ করেতা৷ ১১৭
১১৬. মূল আেলাচনা চলিছল বনী ইসরাঈল সমেকর৷ মাঝখােন পসঙকেম আেলাচয িবষেয়র সােথ সামঞসয েরেখ নবুওয়ােত মুহামাদী পিত ঈমান আনার দাওয়াত েদয়া
হেয়েছ ৷ এখান েথেক আবার বকৃতার ধারা পিরবতরন কের আেগর আেলাচনায় িফের আসা হেয়েছ ৷
১১৭. অিধকাংশ অনুবাদক এ আয়ােতর অনুবাদ এভােব কেরেছন-"মূসার জািতর মেধয এমন একিট দল আেছ যারা সতয অনুযায়ী পথিনেদরশ েদয় ও ইনসাফ কের৷" অথরাৎ
তােদর মেত কুরআন নািযল হবার সময় বনী ইসরাঈলীেদর েয ৈনিতক ও মানিসক অবসা িবরাজমান িছল তারই কথা এ আয়ােত বণরনা করা হেয়েছ৷ িকন পূবরাপর আেলাচনা
িবেশষণ কের আমরা এ মতিটেকই অগািধকার িদেত চাই েয, এখােন হযরত মূসার সময় বনী ইসরাঈলীেদর েয অবসা িছল তারই কথা বণরনা করা হেয়েছ এবং এর মাধযেম
এ বকবয পকাশ করা হেয়েছ েয, এ জািতর মেধয যখন বাছুর পূজার অপরাধ অনুিষত হয় এবং আলাহর পক েথেক তার ওপর পাকড়াও করা হয় তখন সমগ জািত
েগামরাহ িছল না৷ বরং তােদর একিট উেলখেযাগয অংশ তখেনা সৎ িছল৷

‫سَتسَْقاُه‬
ْ ‫سى ِإِذ ا‬
َ ‫حْيَنا ِإَلى ُمو‬
َ ‫طا ُأَمًما َوَأْو‬
ً ‫سَبا‬
ْ ‫شَرَة َأ‬
ْ‫ع‬
َ ‫ي‬
ْ ‫طْعَناُهُم اْثَنَت‬
ّ ‫َوَق‬
‫عْيًنا َقْد‬
َ ‫شَرَة‬
ْ‫ع‬
َ ‫ت ِمْنُه اْثَنَتا‬
ْ ‫س‬
َ‫ج‬
َ ‫جَر َفاْنَب‬
َ‫ح‬
َ ‫ك اْل‬
َ ‫صا‬
َ ‫ب ِبَع‬
ْ ‫ضِر‬
ْ ‫نا‬
ِ ‫َقْوُمُه َأ‬
ّ ‫عَلْيِهكُم اْلَمك‬
‫ن‬
َ ‫عَلْيِهكُم اْلَغَمككاَم َوَأْنَزْلَنككا‬
َ ‫ظّلْلَنككا‬
َ ‫شَرَبُهْم َو‬
ْ ‫س َم‬
ٍ ‫ل ُأَنا‬
ّ ‫عِلَم ُك‬
َ
‫ن َكككاُنوا‬
ْ ‫ظَلُموَنككا َوَلِكك‬
َ ‫ت َمككا َرَزْقَنككاُكْم َوَمككا‬
ِ ‫طّيَبككا‬
َ ‫ن‬
ْ ‫سْلَوى ُكُلوا ِم‬
ّ ‫َوال‬
﴾7:160﴿ ‫ن‬
َ ‫ظِلُمو‬
ْ ‫َأْنُفسَُهْم َي‬
(7:160) And We divided them into twelve tribes, forming them into communities. *118
When his people asked Moses for water We directed him: 'Smite the rock with your rod.'
Then twelve springs gushed forth from the rock and every people knew their drinkingplaces. And We caused thick clouds to provide them shade, and We sent down upon
them manna and quails, *119 saying: 'Eat of the clean things that We have provided you.'
They wronged not Us, but it was themselves that they wronged.
*118. This refers to the organization of the people of Israel which has been mentioned in the
Qur'an in al-Ma'idah 5:12 and also described, at length, in the Bible in Numbers. According to
these sources, in compliance with God's command the Prophet Moses first conducted the
census of the Israelites in the wilderness of Sinai. He registered their twelve tribes, ten of whom
were descendants of the Prophet Jacob, and the remaining two descendants of the Prophet
Joseph, as separate and distinct tribes. He appointed a chief for each tribe and assigned to him
the duty to maintain moral, religious, social and military discipline within each tribe and to
enforce the Law. The Levites, who were descendants of the Prophets Moses and Aaron,
however, were organized as a distinct group entrusted with the task of providing religious
guidance to all tribes.
*119. This organization was one of the numerous favours which God had bestowed upon the
Israelites. Mention is made of three other favours bestowed upon them. First, an extraordinary
arrangement for their water supply was made in the otherwise arid Sinai peninsula. Second, the
sky was covered with clouds such that they were protected from the scorching heat of the sun.

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

Third, a unique meal, consisting of manna and quails was sent down on them. Had this Divine
arrangement, catering as it did for the millions of wandering Israelites' basic necessities of life,
not been made, they would certainly have perished.
On visiting that land even today it is difficult to visualize how such an arrangement providing
shelter, food and water for millions of people was made. The population of this peninsula
standseven today at a paltry, 55,000 people. (it may be noted that this statement was made in
the fifties of the present century. However, the present population of the Sinai is 200,000 - Ed.)
If a five or six hundred thousand strong army, were to camp there today, it would be quite a
task for those at the helm to provide the necessary supplies for the army. Little wonder, then,
that many scholars who belive neither in the Scripture nor in miracles, rule out the historical
accuracy of the event. For them, the people of Israel camped in an area lying south of Palestine
and north of Arabia. In view of the physical and economic geography of the Sinai peninsula,
they consider it totally incredible that such a large population could have stayed there for years.
What has made these scholars even more sceptical about the event is the fact that the Israelites
were not then in a position to procure supplies from either the Egyptians or the 'Amaliqah' who
inhabited respectively the eastern and northern parts of the peninsula, since both groups were
hostile to them. It is against this background that one may appreciate the immense importance
of the favours God conferred on the Israelites. Likewise, it also gives one some idea of the
blatant ingratitude of the people of Israel since they consistently defied and betrayed God even
though they had witnessed a great many divine signs. (See Towards Understanding the Qur'an,
vol. 1, al-Baqarah 2: nn. 72-3 and 76, pp. 76-7 - Ed.)
(৭:১৬০) আর তার জািতেক আিম বােরািট পিরবাের িবভক কের তােদরেক সতন েগােতর রপ িদেয়িছলাম৷ ১১৮ আর যখন মূসার কােছ তার জািত
পািন চাইেলা তখন আিম তােক ইিঙত করলাম ,অমুক পাথের েতামরা লািঠ িদেয় আঘাত কেরা৷ ফেল েসই পাথরিট েথেক অকসাত বােরািট ঝরণাধারা
পবািহত হেলা এবং পতযকিট দল তােদর পািন গহণ করার জায়গা িনিদরষ কের িনল৷আিম তােদর ওপর েমঘমালার ছায়া দান করলাম এবং তােদর ওপর
অবতীণর করলাম মানা ও সালওয়া ১১৯ -েযসব ভাল ও পাক িজিনস েতামােদর িদেয়িছ েসগেলা খাও৷ িকন এরপর তারা যা িকছু কেরেছ তােত আমার
ওপর জুলুম কেরিন বরং িনেজরাই িনেজেদর ওপর জুলুম কেরেছ৷
১১৮. সূরা মােয়দার ১২ আয়ােত বনী ইসরাঈেলর সমাজ কাঠােমা পুনগরঠন ও পুনিবরনযাস পসংেগ েয কথা বলা হেয়েছ এবং বাইেবেলর গণনা পুসেক েয সমেকর িবসািরত
আেলাচনা করা হেয়েছ েসিদেকই এ আয়ােত ইিঙত করা হেয়েছ৷এ েথেক জানা যায় , আলাহর আেদেশ হযরত মূসা িসনাই পাহােড়র জনবসিতহীন এলাকায় অবসানকােল
বনী ইসরাঈল জািতর আদম শমারী সমন কেরন৷ হযরত ইয়াকূেবর দশ েছেল এবং হযরত ইউসুেফর দই েছেলর বংেশর িভিতেত ১২ িট পিরবারেক পৃথকভােব ১২িট েগাত
বা েগাষীেত িবনযাস ও সংগিঠত কেরন৷ পেতযকিট দেল একজন সরদার িনযুক কেরন৷ তােদর দািয়ত িছল ,ৈনিতক , ধমরীয় , সামািজক, সাংসৃিতক ,সামিরক িদক িদেয়
দেলর মেধয িনয়ম -শৃংখলা পিতিষত রাখা, এবং তােদর মেধয শরীয়ােতর িবধান জারী করা৷ এ ছাড়া হযরত ইয়াকুেবর েয দাদশতম পুত লাবীব বংেশ হযরত মূসা ও হযরত
হারেণর জেন হেয়িছল , েসই শাখািটই বাদবাকীসব কিট েগােতর মেধয সেতযর আেলাক িশখা সমুজল রাখার দািয়ত পালেনর জেনয একিট পৃথক দেলর আকাের সংগিঠত
কেরন ৷
১১৯. ওপের েয পুনগরঠন ও পুনিবরনযাস কথা বলা হেয়েছ েসিট িছল মহান আলাহ বনী ইসরাঈলীেদর েযসব অনুগহ কেরিছেলন তার অনযতম ৷এরপর এখােন আেরা িতনিট
অনুগেহর কথা বণরনা করা হেয়েছঃ
একঃ িসনাই উপদীেপর জনমানবহীন এলাকায় তােদর জেনয অেলৌিকক উপােয় পািন সরবরােহর বযবসা করা হয়৷ দই,েরৌদ তাপ েথেক বঁাচাবার জেনয তাদর ওপর
আকােশ েমঘমালার ছায়া রচনা করা হয়৷ িতন, মানা ও সালওয়ার আকাের তােদর জেনয খাদয সরবরােহর অসাভািবক বযবসা করা হয়৷ তােদর জীবন ধারেণর জেনয এ
িতনিট গরতপূণর বযবসা না করা হেল কেয়ক লাখ জনসংখযা সমিলত এ জািতিট এ খাদয -পানীয় িবহীন পাহাড়-মর-পানের কুধা িপপাসায় এেকবােরই িনিশহ হেয়
েযেতা৷ আেজা েকান বযিক েসই এলাকায় েগেল েসখানকার পিরেবশ েদেখ অবাক হেয় যােব৷ অকসাত পেনর িবশ লাখ মানুষ যিদ েসই এলাকায় িগেয় ওেঠ তাহেল
তােদর জেনয খাদয পানীয় ও ছায়াদােনর িক বযবসা করা েযেত পাের, তা তার মাথায়ই আসেব না৷বতরমােন সমগ িসনাই উপদীেপর জনসংখযা৫৫ হাজােরর েবশী নয়৷ আর
আজ এই িবশ শতেকও যিদ েকান েদেশর শাসক েসখােন ৫ লাখ ৈসনয িনেয় েযেত চায় তাহেল তােদর জেনয খাদয পানীয় সরবরােহর বযবসাপনায় তার িবেশষজেদর মাথা

বযাথার কারণ হেয় দঁাড়ােব৷ এ কারেণ আলাহর িকতাব অমানযকারী ও মুিজযা অসীকারকারী বহ আধুিনক পুরাততিবদ ও গেবষকগণ একথা মানেতই চান না েয, বনী
ইসরাঈলীরা িসনাই উপদীেপর কুরআেন ও বাইেবেল উেলিখত অংশ অিতকম কেরিছল৷ তােদর ধারণা , সমবত এ ঘটনাগেলা িফিলিসেনর দিকেণ ও আরেবর উতেরর
এলাকায় েকাথাও সংঘিটত হেয় থাকেব৷ িসনাই উপদীেপর পাকৃিতক , অথরৈনিতক ও েভৌগিলক পিরেবশ েয রকম, তা েদেখ তারা কলনাও করেত পােরন না েয এত বড়
একটা জািতর পেক এখােন বছেরর পর বছর এক একিট এলাকায় তঁাবু খঁািটেয় অবসান করেত করেত এিগেয় যাওয়া সমব৷ িবেশষ কের যখন িমসেরর িদক েথেকও
তােদর খাদয সরবরােহর পথ রদ িছল এবং অনযিদেক পূবর ও উতের আমািলকা েগাতগেলা তােদর িবেরািধতার ভুিমকায় অবতীণর হেয়িছল৷এসব িবষয় িবেবচনা করেল
সিঠকভােব অনুমান করা েযেত পাের েয, এ কেয়কিট সংিকপ আয়ােত মহান আলাহ বিন ইসরাঈলীেদর পিত িনেজর েয সমস অনুগেহর কথা বণরনা কেরেছন ,তা আসেল
কত বড় অনুগহ িছল৷ এরপর আলাহর দান ও অনুগেহর এ ধরেনর সুসষ ও দযথরহীন িনদশরনাবলী েদখার পর আলাহর সােথ এ জািতর নাফরমানী ও িবশাসঘাতকতার েয
ধারাবািহক ঘটনাবলীেত ইিতহােসর পাতা পিরপূণর তা েথেক বুঝা যায় েয তারা কত বড় অকৃতজ িছল৷(তুলনামূলক অধযায়েনর জেনয েদখুন সূরা বাকারা ৭২,৭৩,ও ৭৬
টীকা)

‫طٌة‬
ّ‫ح‬
ِ ‫شْئُتْم َوُقوُلوا‬
ِ ‫ث‬
ُ ‫حْي‬
َ ‫سُكُنوا َهِذِه اْلَقْرَيَة َوُكُلوا ِمْنَها‬
ْ ‫ل َلُهُم ا‬
َ ‫َوِإْذ ِقي‬
﴾7:161﴿ ‫ن‬
َ ‫سِني‬
ِ‫ح‬
ْ ‫سَنِزيُد اْلُم‬
َ ‫طيَئاِتُكْم‬
ِ‫خ‬
َ ‫جًدا َنْغِفْر َلُكْم‬
ّ‫س‬
ُ ‫ب‬
َ ‫خُلوا اْلَبا‬
ُ ‫َواْد‬
(7:161) And recall *120 when it was said to them: 'Dwell in this town and eat plentifully
of whatever you please, and say: "Repentance", and enter the gate prostrate. We shall
forgive you your sins and shall bestow further favours on those who do good.'
*120. This alludes to their constant defiance and rebellion in face of God' favours which
eventually brought about their destruction.
(৭:১৬১) সরণ কেরা ১২০ েসই সমেয়র কথা যখন তােদরেক বলা হেয়িছল েয, এ জনপেদ িগেয় বসবাস কেরা, েসখােন উৎপািদত ফসল েথেক
িনেজেদর ইচামত আহাযর কেরা, িহতাতুন, িহতাতুন বলেত বলেত যাও এবং শহেরর দরজা িদেয় িসজদাবনত হেয় পেবশ করেত থােকা৷ তাহেল আিম
েতামােদর গনাহ মাফ কের েদেবা এবং সৎকমরপরায়ণেদরেক অিতিরক অনুগহ দান করেবা৷
১২০. মহান আলাহর উপেরািলিখত অনুগহসমূেহর জবােব বনী ইসরাঈল িক ধরেনর অপরাধমূলক ধৃষতা ও ঔদতয েদখােত থােক এবং িকভােব কমাগত ধংেসর আবেতর
েনেম েযেত থােক, তা তুেল ধরার জেনয এখােন এ জািতর সংিশষ ঐিতহািসক ঘটনাবিল বণরনা করা হেচ৷

‫عَلْيِهكْم‬
َ ‫سكْلَنا‬
َ ‫ل َلُهكْم َفَأْر‬
َ ‫غْيكَر اّلكِذي ِقيك‬
َ ‫ل‬
ً ‫ظَلُموا ِمْنُهْم َقكْو‬
َ ‫ن‬
َ ‫ل اّلِذي‬
َ ‫َفَبّد‬
﴾7:162﴿ ‫ن‬
َ ‫ظِلُمو‬
ْ ‫سَماِء ِبَما َكاُنوا َي‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫جًزا ِم‬
ْ ‫ِر‬
(7:162) Then the wrong-doers among them substituted another word in place of the one
told them. So We sent upon them a scourge from the heaven as a punishment for their
Wrong-doing. *121
*121. For details see Towards Understanding the Qur'an, vol. 1, al-Baqarah 2: nn. 74-5, pp. 767.
(৭:১৬২) িকন তােদর মেধয যারা জােলম িছল তারা তােদরেক েয কথা বলা হেয়িছল তা পিরবতরন কের েফলেলা৷ এর ফেল তােদর জুলুেমর বদলায়
আিম আকাশ েথেক তােদর পিত আযাব পািঠেয় িদলাম৷ ১২১
১২১. বযাখযার জেনয েদখুন সূরা আল বাকারা ৭৪ও ৭৫ টীকা৷

ِ‫سبْت‬
ّ ‫ن ِفي ال‬
َ ‫حِر ِإْذ َيْعُدو‬
ْ ‫ضَرَة اْلَب‬
ِ ‫حا‬
َ ‫ت‬
ْ ‫ن اْلَقْرَيِة اّلِتي َكاَن‬
ِ‫ع‬
َ ‫َواسَْأْلُهْم‬
َ ‫ل َتْأِتيِهْم َك كَذِل‬
‫ك‬
َ ‫ن‬
َ ‫سِبُتو‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫عا َوَيْوَم‬
ً ‫شّر‬
ُ ‫سْبِتِهْم‬
َ ‫حيَتاُنُهْم َيْوَم‬
ِ ‫ِإْذ َتْأِتيِهْم‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

﴾7:163﴿

َ ‫سُقو‬
‫ن‬
ُ ‫َنْبُلوُهْم ِبَما َكاُنوا َيْف‬

(7:163) And ask the people of Moses concerning the town situated along the sea *122 how
its people profaned the Sabbath when fish came to them breaking the water's surface on
Sabbath days, *123 and would not come to them on other than Sabbath-days. Thus did We
try them because of their disobedience. *124
*122. Most scholars identify this place with Eilat, Eilath or Eloth. (Cf. Encyclopaedia
Britannica, XV edition, 'Macropaedia', vol. 3, art. 'Elat' -Ed.) The seaport called Elat which has
been built by the present state of Israel (which is close to the Jordanian seaport, Aqaba), stands
on the same site. It lies at the end of that long inlet of the Red Sea situated between the eastern
part of the Sinai peninsula and the western part of Arabia. It was a major trading centre in the
time of Israelite ascendancy. The Prophet Solomon took this city as the chief port for his fleet
in the Red Sea.
The event referred to in the above verse is not reported in Jewish Scriptures. Nor do historical
accounts shed any light on it. Nonetheless, it appears from the way it has been mentioned in the
above verse and in al-Baqarah that the Jews of the early days of Islam were quite familiar with
the event. (See Towards Understanding the Qur'an, vol. 1, al-Baqarah 2: 65 and n. 83, pp. 81-2
- Ed.) This view is further corroborated by the fact that even the Madinan Jews who spared no
opportunity to criticize the Prophet (peace be on him) did not raise any objection against this
(Qur'anic account.
*123. 'Sabbath', which means Saturday, was declared for the Israelites as the holi day of the
week. God declared the Sabbath as a sign of the perpetual covenant between God and Israel.
(Exodus 31: 12-16.) The Israelites were required to strictly keep the Sabbath which meant that
they may not engage in any worldly activity; they may not cook, nor make their slaves or cattle
serve them. Those who violated these rules were to be put to death. The Israelites, however,
publicly violated these rules. In the days of the Prophet Jeremiah (between 628 and 586 B.C.),
the Israelites carried their merchandise through the gates of Jerusalem on the Sabbath day itself.
Jeremiah, therefore, warned them that if they persisted in their flagrant violation of the Law,
Jerusalem would be set on fire. (Jererniah 17: 21-7.) The same complaint is voiced in the Book
of the Prophet Ezekiel (595-536 B.C.) who referred to their violation of the Sabbath rules as
their major sin. (Ezekiel 20: 12-24.) In view of these Scriptural references it seems plausible
that the event mentioned in the above Qur'anic verse is related to the same period.

*124. Men are tested by God in a variety of ways. When a person or group of people begin to
turn away from God and incline themselves towards disobedience, God provides abundant
opportunities for them to disobey. This is done in order that the full potential for disobedience,
which had remained hidden because of lack of such an opportunity, might come to the surface.
(৭:১৬৩) আর সমুেদর তীের েয জনপদিট অবিসত িছল তার অবসা সমেকরও তােদরেক একটু িজেজস কেরা৷ ১২২ তােদর েসই ঘটনার কথা সরণ
কিরেয় দাও েয, েসখানকার েলােকরা শিনবাের আলাহর হকুম অমানয করেতা এবং শিনবােরই মােছরা পািনেত েভেস েভেস তােদর সামেন আসেতা৷
১২৩
অথচ শিনবার ছাড়া অনয িদন আসেতা না৷ তােদর নাফরমানীর কারেণ তােদরেক আিম কমাগত পরীকার মেধয েঠেল িদিচলাম বেলই এমনিট
হেতা৷ ১২৪
১২২. িবেশষজেদর অিধকাংেশর মেত এ সানিট িছল 'আয়লা', 'আয়লাত' বা 'আয়লূত'৷ ইসরাঈেলর ইহদী রাষ বতরমােন এখােন এ নােম একিট বনর িনমরাণ কেরেছ৷ এর
কােছই রেয়েছ জদরােনর িবখযাত বনর আকাবা৷ েলািহত সাগেরর েয শাখািট িসনাই উপদীেপর পূবর উপকূল ও আরেবর পিশম উপকূেলর মাঝখােন একই লমা উপসাগেরর
মত েদখায় তার িঠক েশষ মাথায় এ সানিট অবিসত৷ বনী ইসরাঈেলর উতান যুেগ এিট একিট গরতপূণর বািণিজযেকন িছল৷ হযরত সুলাইমান আলাইিহস সালাম এ শহেরই
তঁার েলািহত সাগেরর সামিরক ও বািণিজযক েনৌবহেরর েকন সাপন কেরিছেলন৷
এখােন েয ঘটনািটর িদেক ইিঙত করা হেয়েছ ইহদীেদর পিবত গনসমূেহ আমরা তার েকান উেলখ পাই না৷ তােদর ইিতহােসও এ পসংেগ নীরব৷ িকন কুরআন মজীেদ
েযভােব এ ঘটনািটেক এখােন ও সূরা বাকারায় বণরনা করা হেয়েছ, তা েথেক পিরষার পতীয়মান হয় েয, কুরআন নািযেলর সময় বনী ইসরাঈলীরা সাধারণভােব এ ঘটনািট
সমেকর ভালভােবই অবগত িছল৷ এিট একিট পমািনত সতয েয, নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর িবেরািধতার পশ েযখােন মদীনার ইহদীরা েকান একিট সুেযাগও
হাতছাড়া হেত িদেতা না েসখােন কুরআেনর এ বণরনার িবরেদ তারা আেদৌ েকান আপিতই েতােলিন৷
১২৩. কুরআেন 'সাবত' শব বযবহার করা হেয়েছ ৷ 'সাবত' মােন শিনবার৷ বনী ইসরাঈলীেদর জেনয এ িদনিটেক পিবত িদন গণয করা হেয়িছল৷ মহান আলাহ এ িদনিটেক
িনেজর ও বনী ইসরাঈলীেদর সনান-সনিতেদর মেধয সমািদত পুরষানুকিমক সায়ী অংগীকার গণয কের তাকীদ কেরিছেলন েয এ িদন েকান পািথরব কাজ করা যােব না,
ঘের আগণ পযরন জালােনা যােব না, গৃহপািলত পশ এমন িক চাকর-বাকর -দাসদািসেদর েথেকও েকান েসবা করা চলেব না এবং েয বযিক এ িনয়ম লংঘন করেব তােক
হতযা করা হেব৷ িকন উতরকােল বনী ইসরাঈল পকােশয এ আইেনর িবেরাধীতা করেত থােক৷ ইয়ারিময়াহ (িযরিময়) নবীর আমেল (িযিন খৃষপূবর ৬২৮ও ৫৮৬ সােলর
মাঝামািঝ সমেয় েবঁেচ িছেলন৷)েলােকরা খাস েজরজােলরেমর িসংহ দরজাগেলা িদেয় মালপত িনেয় চলােফরা করেতা৷ এেত ঐ নবী ইহদীেদেক সতকর কের িদেয় বেলন,
েতামরা যিদ এভােব পকােশয শরীয়ােতর িবরদাচারণ করা েথেক িবরত না হও তাহেল েজরসােলেম আগন লািগেয় েদয়া হেব৷ (িযরিময় ১৭:২১-২৭) হযরত িহযিকঈল
(িযিহেসল)নবীও এ একই অিভেযাগ কেরন৷ তঁার আমল িছল খৃষপূবর ৫৯৫ ও ৫৩৬ এর মধযবতরী সমেয়৷ তঁার গেন শিনবােরর অবমাননােক ইহদীেদর একিট মসবড় জাতীয়
অপরাধ গণয করা হেযেছ৷(িযিহেসল ২০:১২-২৪) এসব উদৃিত েথেক অনুমান করা েযেত পাের, কুরআন মিজেদ এখােন েয ঘটনািটর কথা বলেছ েসিটও সমবত এ একই
যুেগর ঘটনা৷
১২৪. মানুষেক পরীকা করার জেনয মহান আলাহ েযসব পদিত অবলমন কের থােকন তার মেধয এও একিট পদিত েয, যখন েকান বযিক বা দেলর মেধয আনুগতয
িবচুযিত ও নাফরমানীর পবণতা বাড়েত থােক তখন তােক আেরা েবশী কের নাফরমানী করার সুেযাগ েদয়া হয়৷ েযন তার েযসব পবণতা েভতের লুিকেয় থােক েসগেলা
পুেরাপুির উনুক হেয় যায় এবং েযসব অপরাধ েস িনেজেক কুলিষত করেত চায় েকবলমাত সুেযােগর অভােব েস েসগেলা েথেক িবরত েথেক না যায়৷

‫ع كَذاًبا‬
َ ‫ل ك ُمْهِلُكُه كْم َأْو ُمَع كّذُبُهْم‬
ُّ ‫ن َقْوًمككا ا‬
َ ‫ظو‬
ُ ‫ت ُأّمٌة ِمْنُهْم ِلَم َتِع‬
ْ ‫َوِإْذ َقاَل‬
﴾7:164﴿ ‫ن‬
َ ‫شِديًدا َقاُلوا َمْعِذَرًة ِإَلى َرّبُكْم َوَلَعّلُهْم َيّتُقو‬
َ
(7:164) And recall when a party of them said: 'Why do you admonish a people whom
Allah is about to destroy or punish severely?' They said: 'We admonish them in order to
be able to offer an excuse before Your Lord, and in the hope that they will guard against
disobedience.'
১৬৪) আর তােদর একথাও সরণ কিরেয় দাও, যখন তােদর একিট দল অনয দলেক বেলিছল, েতামরা এমন েলাকেদর উপেদশ িদেচা েকন যােদরেক
আলাহ ধংস করেবন বা কেঠার শািস েদেবন? জবােব তারা বেলিছল, এসব িকছু এ জেনযই করিছ েযন আমরা েতামােদর রেবর সামেন িনেজেদর
ওপর েপশ করেত পাির এবং এ আশায় করিছ েয, হয়েতা এ েলােকরা তঁার নাফরমানী করা েছেড় েদেব৷

َ ‫خْذَنا اّلكِذي‬
‫ن‬
َ ‫سوِء َوَأ‬
ّ ‫ن ال‬
ِ‫ع‬
َ ‫ن‬
َ ‫ن َيْنَهْو‬
َ ‫جْيَنا اّلِذي‬
َ ‫سوا َما ُذّكُروا ِبِه َأْن‬
ُ ‫َفَلّما َن‬

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

﴾7:165﴿

َ ‫سُقو‬
‫ن‬
ُ ‫س ِبَما َكاُنوا َيْف‬
ٍ ‫ب َبِئي‬
ٍ ‫ظَلُموا ِبَعَذا‬
َ

(7:165) Then, when they forgot what they had been exhorted, We delivered those who
forbade evil and afflicted the wrong-doers with a grievous chastisement *125 because of
their evildoing.
*125. This shows that the people in that town were of three categories. One, those who
flagrantly violated God's commands. Two, those who were silent spectators to such violations
and discouraged those who admonished the criminals, pleading that their efforts were fruitless.
Three, those who, moved by their religious commitment, actively enjoined good and forbade
evil so that the evil-doers might make amends. In so doing, they were prompted by, a sense of
duty, to bring back the evil-doers to the right path, and if the latter did not respond to their call,
they would at least be able to establish before their Lord that for their part they had fulfilled
their duty to admonish the evil-doers. So, when the town was struck by God's punishment, only
the people belonging to the last category were spared for they had displayed God-consciousness
and performed the duties incumbent upon them. As for the people of the other two categories,
they were reckoned as transgressors and were punished in proportion to their crimes.
Some commentators on the Qur'an are of the opinion that whereas the Qur'an specifically,
describes the fate of the people belonging to the first and third categories, it is silent about the
treatment meted out to the people of the second category. It cannot be said, therefore, with
certainty, whether they were spared or punished. It is reported that Ibn 'Abba's initially believed
that God's punishment included the second category as well. It is believed that later his disciple
Ikramah convinced him that only the people of the second category would be delivered in the
same manner as the people of the third category.
A closer study of the Qur'anic account, however, shows that Ibn 'Abba's earlier viewpoint is
sound. It is evident that the people of the town would inevitably have been grouped into two
categories on the eve of God's punishment: those who were spared and those who were not.
Since the Qur'an states that the people of the third category, had been spared, it may be
legitimately assumed that the people belonging to both the first and the second categories were
punished. This view is also corroborated by the preceding verse:
Also recall when a party of them said: 'Why do you admonish a people whom Allah is about to
destroy or punish severely? They said: 'We admonish them in order to he able to offer an
excuse before your Lord, and in the hope that they will guard against disobedience.' (Verse
164.)

Thus it clearly emerges from the above discussion that all the people of the place where evil
deeds are publicly committed stand guilty, One cannot be absolved merely on the basis that one
had not committed any evil. One may be acquitted only, in the event that one made every
possible effort to bring about reform and actively worked in the cause of the truth. This
constitutes the divine law pertaining to collective evil as is evident from the teachings of the
Qur'an and Hadith. The Qur'an says:
And guard against the mischief that will not only bring punishment to the wrong-doers among
you. Know well that Allah is severe in punishment (Al-Anfal 8: 15).
Explaining the above verse the Prophet (peace be on him) remarked: 'God does not punish the
generality of a people for the evil committed by a particular section of that people until they
observe others committing evil and do not denounce it even though they are in a position to do
so. And when they do that, God punishes all, the evil-doers and the people in general.' (Ahmad
b. Hanbal. Musnad, vol. 4, p. 192 - Ed.)
Moreover. the verse in question seems to suggest that God's punishment afflicted the town
concerned in two stages. The first stage is referred to as 'grevious chastisement', for in the next
stage they were turned into apes. We may, therefore, hold that people belonging to both the first
and the second categories were subjected to punishment. But the punishment of transforming
the persistent evil-doers into apes was confined only to the people of the second category. (God
knows best. If I am right that is from God. If I err, that is from me alone. God is All-Forgiving,
All-Merciful.)
(৭:১৬৫) েশষ পযরন তােদরেক েয সমস েহদায়াত সরণ কিরেয় েদয়া হেয়িছল তারা যখন েসগেলা সমূণর ভুেল েগেলা তখন যারা খারাপ কােজ বাধা
িদেতা তােদরেক আিম বঁািচেয় িনলাম এবং বািক েলাক যারা েদাষী িছল তােদর নাফরমানীর জনয তােদরেক কিঠন শািস িদলাম৷ ১২৫
১২৫. এ বণরনা েথেক জানা যায় েয, এ জনপেদ িতন ধরেনর েলাক িছলঃ
একঃ যারা পকােশয ও পূণর ঔদতয সহকাের আলাহর িবধােনর িবরদাচরণ করিছল৷
দইঃ যারা িনেজরা িবরদাচরণ করিছল না িকন অেনযর িবরদাচরণেক নীরেব হাত পা গিটেয় বেস বেস েদখিছল এবং উপেদশ দানকারীেদর বলিছল, এ হতভাগােদর
উপেদশ িদেয় কী লাভ?
িতনঃ যারা ঈমানী সমমেবাধ ও মযরাদােবােধর কারেণ আলাহর আইেনর এেহন পকাশয অমযরাদা বরদাশত করেত পােরিন এবং তারা এমােন সৎ কােজর আেদশ িদেত ও
অসৎকাজ েথেক অপরাধীেদর িবরত রাখেত তৎপর িছল েয, হয়েতা ঐ অপরাধীরা তােদর উপেদেশর পভােব সৎপেথ এেস যােব, আর যিদ তারা সৎপেথ নাও আেস তাহেল
অনত িনেজেদর সামথর েমাতািবক কতরবয পালন কের তারা আলাহর সামেন িনেজেদর দায় মুিকর পমাণ েপশ করেত পারেব৷
এ অবসায় এ জনপেদর ওপর যখন আলাহর আযাব েনেম এেলা তখনকার অবসা িবেশষণ কের কুরাআন মজীদ বলেছ , এ িতনিট দেলর মধয েথেক একমাত তৃতীয়
দলিটেকই বঁািচেয় েনয়া হেয়িছল৷কারণ একমাত তারাই আলাহর সামেন িনেজেদর ওযর েপশ করার িচনা করিছল এবং একমাত তারাই িনেজেদর দািয়ত মুিকর পমাণ
সংগহ কের েরেখিছল৷ বািক দল দিটেক অপরাধীেদর মেধয গণয করা হেলা এবং িনেজেদর অপরাধ অনুপােত তারা শািস েভাগ করেলা৷েকান েকান তাফসীরকার এ অিভমত
বযক কেরেছন েয আলাহ পথম দলিটর শািস েভাগ করার এবং িদতীয় দলিটর উদার পািপর বযাপাের সষ উিক কেরেছন৷ িকন তৃতীয় দলিটর বযাপাের নীরবতা অবলমন
কেরেছন৷ কােজই তারা শািস েভাগ কেরিছল না উদার েপেয়িছল, এ বযাপাের িকছুই বলা যায় না৷
আবার আবুলাহ ইবেন আবাস রািদয়ালাহ আনহর একিট বণরনা পাওয়া যায়৷ তােত বলা হেয়েছ িতিন পথেম িদতীয় দলিট শািস লাভ কেরিছল বেল মত েপাষণ করেতন৷
পের তঁার ছাত ইকরামা তােক এ বযাপাের িনিশন কের েদন েয, িদতীয় দলিট উদার েপেয়িছল৷
িকন কুরআেনর বণরনা সমেকর িচনা-ভাবনা করেল মেন হয়, হযরত ইবেন আবােসর পথম িচনািটই সিঠক িছল৷একথা সুষষ েয, েকান জনপেদর ওপর আলাহর আযাব
অবতীণর হেল সমগ জনপদবাসীরা দভােগই িবভক হেয় েযেত পাের৷ এক ভােগ এমন সব েলােকরা থােক যারা আযাব েভাগ কের এবং অনয ভােগ থােক তারা যারা আযাব
েথেক েবঁেচ যায়৷
এখন কুরআেনর বকবয অনুযায়ী উদারপাপ যিদ েকবল তৃতীয় দলিটই হেয় থােক তাহেল িনিশতখােব বলা যায় যারা উদার পায়িন তােদর মেধয থাকেব পথম ও িদতীয়
উভয় দলই৷ এির সমথরন পাওয়া যায় (অথরাৎ এসব িকছুই করিছ আমরা েতামােদর রেবর সামেন িনেজর ওযর েপশ করার উেদেশয) বাকযাংশিটর মেধয৷এ বাকযাংশিটেত
আলাহ িনেজই একথা সুষষ েয কের িদেয়েছন েয, আলাহর কােছ ওযর করার জেনয অবিশয িনেজেদর দািয়ত পুেরাপুির পালন কের েযেত হেব৷ এভােব দািয়ত মূিকর পমাণ
যারা সংগহ করেত পারেব একমাত তারাই আলাহর কােছ ওযর েপশ করেত পারেব৷ এ েথেক পিরষার পমািণত হেচ, এ জনপেদর পকােশয আলাহর িবধান লংঘন করা
চলেত থােক এবং েসখানকার সবাই জবাবিদিহর সমুখীন হয়৷ েসখানকার েকান অিধবাসী শধু িনেজই আলাহর িবধান লংঘন কেরিন বেলই আলাহর সামেন জবাবিদিহ েথেক

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
বঁাচেত পাের না৷ রবং আলাহর সামেন িনেজর সাফাই েপশ করার জেনয তােক অবশযই এ মেমর পমাণ েপশ করেত হেব েয, িনেজর সামথর েমাতািবক মানুেষর সংেশাধন ও
আলাহর সতয দীেনর পিতষার জেনয েস পেচষা চািলেয় এেসেছ৷ এ ছাড়া কুরআন ও হাদীেসর অনযানয বকবয েথেকও আমরা সামিষক অপরােধর েকেত আলাহর এ একই
ধরেনর আইেনর কথা জানেত পাির৷ তাই আমরা েদিখ কুরআেন বলা হেয়েছঃ
---------------------------------(েসই িবপযরয় েথেক সাবধান হও, যার কবেল িবেশষভােব েকবলমাত েতামােদর মধয েথেক যারা জুলূম কেরেছ তারাই পড়েব না) আর এর বযাখযায় নবী সালালাহ আলাইিহ
ওয়া সালাম বেলেছনঃ
---------------------------------------"মহান আলাহ িবেশষ েলাকেদর অপরােধর দরন সবরসাধারণেক শািস েদন না, যতকন সাধারণ েলাকেদর অবসা এমন পযরােয় না েপৌেছ যায় েয, তারা িনেজেদর েচােখর
সামেন খারাপ কাজ হেত েদেখ এবং তার িবরেদ অসেনাষ পকােশর কমতাও রােখ এরপরও েকান অসেনাষ পকাশ কের না৷কােজই েলােকরা যখন এমন অবসায় েপৌেছ
যায় তখন আলাহ সাধারণ ও অসাধারণ িনেবরেশেষ সবাইেক আযােবর মেধয িনেকপ কেরন"৷
এছাড়াও আেলাচয আয়াত েথেক একথাও জানা যায় েয, এ জনপেদর ওপর দই পযরােয় আলাহর আযাব নািযল হয়৷ পথম পযরােয় নািযল হয় ---------(কিঠন শািস )এবং
িদতীয় পযরােয় নাফরমানী যারা অবযাহত েরেখিছল তােদরেক বানের পিরণত করা হয়৷ আমার মেত পথম পযরােয়র আযােব উভয় দলই শািমল িছল এবং িদতীয় পযরােয়র
আযাব েদয়া হেয়িছল েকবলমাত পথম দলেক৷
এ েকেত অবিশয সিঠক বযাপার একমাত আলাহই ভাল জােনন৷ যিদ আমার অিভমত সিঠক হেয় থােক তাহেল তা আলাহর পক েথেকই এেসেছ৷ আর যিদ আিম ভুল কের
থািক তাহেল েস জেনয আিমই দায়ী ৷ আলাহ অবিশয কমাশীল ও করণাময়৷

﴾7:166﴿

َ ‫سِئي‬
‫ن‬
ِ ‫خا‬
َ ‫عْنُه ُقْلَنا َلُهْم ُكوُنوا ِقَرَدًة‬
َ ‫ن َما ُنُهوا‬
ْ‫ع‬
َ ‫عَتْوا‬
َ ‫َفَلّما‬

(7:166) And when they persisted in pursuing that which had been forbidden We said:
'Become despised apes.' *126
*126. For details see Towards Understanding the Q ur'an, vol. 1, alBaqarah 2: n. 83, pp. 81-2,
(৭:১৬৬) তারপর েয কাজ েথেক তােদরেক বাধা েদয়া হেয়িছল তাই যখন তারা পূণর ঔদতযসহকাের কের েযেত লাগেলা তখন আিম বললাম, েতামরা
লািঞত ও ঘৃিণত বানর হেয় যাও৷ ১২৬
১২৬. বযাখযার জেনয েদখুন সূরা আল বাকারা ৮৩ টীকা৷

‫سككوَء‬
ُ ‫سككوُمُهْم‬
ُ ‫ن َي‬
ْ ‫عَلْيِهكْم ِإَلككى َيكْومِ اْلِقَياَمكِة َمك‬
َ ‫ن‬
ّ ‫ك َلَيْبَعَثك‬
َ ‫ن َرّب‬
َ ‫َوِإْذ َتَأّذ‬
﴾7:167﴿ ‫م‬
ٌ ‫حي‬
ِ ‫ب َوِإّنُه َلَغُفوٌر َر‬
ِ ‫سِريُع اْلِعَقا‬
َ ‫ك َل‬
َ ‫ن َرّب‬
ّ ‫ب ِإ‬
ِ ‫اْلَعَذا‬
(7:167) And recall when Your Lord proclaimed *127 that 'He would continually set in
authority over them, till the Day of Judgement, those who would ruthless oppress
thern.' *128 Surely, your Lord is swift in chastising; and yet He is All-Forgiving, AllMerciful.
*127. The Qur'anic expression 'ta'adhdhana' means almost the same 'he warned; he proclaimed'.
*128. Since the 8th century B.C. the Israelites were warned consistently. This is borne out by
the contents of the Books of the Prophets Isaiah, Jeremiah, and their successors. Jesus too
administered the same warning which is borne out by many of his orations in the New
Testament, This was also later confirmed by the Qur'an. History bears out the veracity of the
statement made both in the Qur'an and the earlier scriptures. For throughout history, since the

time the Jews were warned, they have continually been subjected to abject persecution in one
part of the world or another.
(৭:১৬৭) আর সরণ কেরা যখন েতামােদর রব েঘাষণা কেরন ১২৭ িকয়ামত পযরন িতিন সবসময় বনী ইসরাঈলীেদর ওপর এমন সব েলাকেক চািপেয়
িদেয় েযেত থাকেবন যারা তােদরেক েদেব কিঠনতম শািস৷১২৮ িনসেনেহ েতামােদ রব দত শািসদানকারী এবং িনিশতভােবই িতিন কমাশীল ও
করনাময়ও৷
১২৭. এখােন মূল শব হেচ----- (তায়াজানা) এর অথর হয় অেনকটা েনািটশ িদেয় জািনেয় েদবার মত৷
১২৮. পায় খৃষপূবর অষম শতক েথেক বনী ইসরাঈলেক এভােব কমাগত সতকর কের িদেয় আসা হিচল৷ তাই েদখা যায়, ইহদীেদর পিবত গন সমিষেত ইয়াসইয়াহ
(িযশাইয়)ও ইয়ারিময়াহ(িযরিময়) এবং তােদর পর আগমনকারী নবীেদর সকল গেন েকবল এ সতকরবাণী িলিপবব রেয়েছ৷তারপর ঈসা আলাইিহস সালামও তােদরেক এ
একই সতকরবাণী শনান৷ িবিভন ইনজীল গেন তঁার একািধক ভাষণ েথেকই এ িবষয়িট সুষষ হেয় ওেঠ৷ সবেশেষ কুরআন মজীদও একথিটেক দৃঢ়ভােব পুনবরযক কেরেছ৷ েস
সময় েথেক িনেয় আেজা পযরন ইিতহােসর এমন একিট যুগও অিতকন হয়িন যখন ইহদী জািতর ওপর দিনয়ার েকাথাও না েকাথাও িনপীড়ন ও লাঞনা অবযাহত থােকিন৷
ইহূদী জািতর এ অবসা কুরআন ও তর পূেবরকার আসমানী গনাবলীর সতয তারই সুষষ সাকবহ৷

َ ‫ن َذِل ك‬
‫ك‬
َ ‫ن َوِمْنُه كْم ُدو‬
َ ‫حو‬
ُ ‫صككاِل‬
ّ ‫ض ُأَمًمككا ِمْنُه كُم ال‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫طْعَنككاُهْم ِفككي ا‬
ّ ‫َوَق‬
﴾7:168﴿ ‫ن‬
َ ‫جُعو‬
ِ ‫ت َلَعّلُهْم َيْر‬
ِ ‫سّيَئا‬
ّ ‫ت َوال‬
ِ ‫سَنا‬
َ‫ح‬
َ ‫َوَبَلوَْناُهْم ِباْل‬
(7:168) And We dispersed them through the earth in communities - some were
righteous, others were not -and We tested them with prosperity and adversity that they
may turn back (to righteousness).
১৬৮) আিম তােদরেক পৃিথবীেত খন িবখন কের বহ সংখযক জািতেত িবভক কের িদেয়িছ৷ তােদর মেধয িকছু েলাক িছল সৎ এবং িকছু েলাক অনয
রকম৷ আর আিম ভাল ও খারাপ অবসায় িনেকপ করার মাধযেম তােদরেক পরীকা করেত থািক, হয়েতা তারা িফের আসেব৷

‫لْدَنككى‬
َْ ‫ض َه كَذا ا‬
َ ‫عَر‬
َ ‫ن‬
َ ‫خُذو‬
ُ ‫ب َيْأ‬
َ ‫ف َوِرُثوا اْلِكَتا‬
ٌ ‫خْل‬
َ ‫ن َبْعِدِهْم‬
ْ ‫ف ِم‬
َ ‫خَل‬
َ ‫َف‬
‫عَلْيِهككْم‬
َ ‫خْذ‬
َ ‫خُذوُه َأَلْم ُيْؤ‬
ُ ‫ض ِمْثُلُه َيْأ‬
ٌ ‫عَر‬
َ ‫ن َيْأِتِهْم‬
ْ ‫سُيْغَفُر َلَنا َوِإ‬
َ ‫ن‬
َ ‫َوَيُقوُلو‬
‫سككوا َمككا ِفيكِه‬
ُ ‫ق َوَدَر‬
ّ ‫حك‬
َ ‫ل اْل‬
ّ ‫لك ِإ‬
ِّ ‫عَلككى ا‬
َ ‫ل َيُقوُلككوا‬
َ ‫ن‬
ْ ‫ب َأ‬
ِ ‫ق اْلِكَتككا‬
ُ ‫ِميَثككا‬
﴾7:169﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َتْعِقُلو‬
َ ‫ن َأَف‬
َ ‫ن َيّتُقو‬
َ ‫خْيٌر ِلّلِذي‬
َ ‫خَرُة‬
ِ‫ل‬
َْ ‫َوالّداُر ا‬
(7:169) Then others succeeded them who inherited the scriptures, and yet kept
themselves occupied in acquiring the goods of this world and kept saying: 'We shall be
forgiven.' And when there comes to them an opportunity for acquiring more of those
goods, they seize it. *129 Was not the covenant of the Book taken from them that they
would not ascribe to Allah anything but the truth? And they have read what is in the
Book *130 and know that the abode of the Hereafter is better for the God-fearing. *131 Do
you not understand?
*129. The Jews knowingly commit sins in the belief that being God's chosen people they will
necessarily be pardoned and spared God's punishment. As a result of this misconception, they
neither repent nor refrain from committing sins. How unfortunate the Jews are! They received
the Scriptures which could have made them leaders of all mankind. But they were so petty-

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

minded that they aspired to nothing higher than paltry worldly benefits. Thus even though they
had the potential of becoming the upholders of justice and righteousness across the world they
ended up merely as worshippers of this world.
*130. The people of Israel know well that the Torah does not unconditionally assure them
salvation. They have never been promised by God or any of His Prophets that they will attain
deliverance no matter what they do. Therefore they have absolutely no right to ascribe to God
something which He never told them. What makes their crime even worse is that their claim to
unconditional salvation constitutes a sacrilege of their covenant with God whereby they
pledged never to attribute any false statement to God.
*131. The above verse has two renderings. It may be either translated as above or it may be
rendered thus: 'For the righteous, only the home in the Hereafter is the best.' Going by the first
rendering, the verse means that salvation is not the exclusive privilege of a particular person or
a family. It is absolutely out of the question that one will attain deliverance even if one commits
sins, simply on account of being a Jew. A little reflection will help one realize that only the
righteous and God-fearing will be rewarded in the Hereafter. In the light of the second
rendering, only the unrighteous prefer worldly, gains to reward in the Hereafter. As for the
righteous, they are conscious of the importance of the Hereafter and hence forego worldly
benefits for the sake of reward in the Next World.
(৭:১৬৯) তারপর পরবতরী বংশদরেদর পর এমন িকছু অেযাগয েলাক তােদর সলািভিষক হয় যারা আলাহর িকতােবর উতরািধকারী হেয় এ তুচ
দিনয়ার সাথর আহরেণ িলপ হয় এবং বলেত থােক আশা করা যায়, আমােদর কমা করা হেব৷ পরকেনই েসই ধরেনর পািথরব সামগী যিদ আবার তােদর
সামেন এেস যায় তাহেল তৎকনাৎ েদৌেড় িগেয় তা লুেফ েনয়৷ ১২৯ তােদর কাছ েথেক িক িকতােবর অংগীকার েনয়া হয়িন েয, তারা আলাহর নােম
েকবলমাত সতয ছাড়া আর িকছুই বলেব না? আর িকতােব যা েলখা আেছ তােতা তারা িনেজরাই পেড় িনেয়েছ৷ ১৩০ আখারােতর আবাস েতা আলাহর
ভেয় ভীত েলাকেদরই জনয ভাল ১৩১ -এতটুকু কথাও িক েতামরা বুেঝা না?
১২৯. অথরাৎ গনাহ কের৷ তারা জােন এ কাজিট করা গনাহ তবুও এ আশায় তারা এ কাজিট কের েয, েকান না েকানভােব তােদর গনাহ মাফ কের েদয়া হেব৷কারণ তারা
মেন কের, তারা আলাহর িপয়পাত এবং তারা যত কিঠন অপারাধই করন না েকন তােদর কমতালাভ অপিরহাযর৷ এ ভূল ধারণার ফেল েকান গনাহ করার পর তারা লিজত
হয় না এবং তাওবাও কের না৷ বরং ঐ একই ধরেনর গনাহ করার সুেযাগ এেল তারা আবার তােত জিড়েয় পেড়৷ এ হতভাগয েলােকরা এমন একিট িকতােবর উতরাধীকারী
িছল, যা তােদরেক দিনয়ার েনতৃেতর পেদ আসীন করেত েচেয়িছল৷ িকন তােদর হীনমনযতা ও নীচাশয়তার ফেল তারা এ েসৌভােগযর পরশমিণিটর সাহােযয তুছছ পািথরব
সমদ আহরণ করার চাইেত বড় েকান িজিনস উপাজরেনর িহমাতই করেলা না৷ তারা দিনয়ার নযায়-ইনসাফ,সতয-সততার পতাকাবহী এবং কলযাণ ও সুকৃিতর অগপিথক ও
পদপদশরক হবার পিরবেতর িনছক দিনয়ার কুকুর হেয়ই রইল৷
১৩০. অথরাৎ তারা িনেজরাই জােন, তাওরােতর েকাথাও বনী ইসরাঈেলর জেনয শতরহীন মুিক সনদ েদয়ার উেলখ েনই৷ আলাহ কখেনা তােদরেক একথা বেলনিন এবং
তােদর নবীগণও কখেনা তােদরেক ও ধরেনর িনশয়তা েদনিন েয, েতামরা যা ইচা করেত পােরা, েতামােদর সকল গনাহ মাফ হেয় যােব৷ তাছাড়া আলাহ িনেজ েয কথা
কখেনা বেলনিন তােক আলাহর কথা বেল পচার করার িক অিধকারই বা তােদর থাকেত পাের? অথচ তােদর কাছ েথেক অংগীকার েনয়া হেয়িছল েয, আলাহর নােম েকান
অসতয কথা তারা বলেব না৷
১৩১. এ আয়াতিটর দিট অনুবাদ হেত পাের৷ একিট অনুবাদ আিম এখােন কেরিছ৷ আর িদতীয়িট হেচ, আলাহর ভেয় ভীত েলাকেদর জেনয েতা আেখরােতর আবাসই ভাল
পথম অনুবােদর আেলােক আয়ােতর তাৎপযর হেব এই েয, মাগেফরাত কােরার একেচিটয়া বযািকগত বা পািরবািরক অিধকার নয়৷তুিম এমন কাজ করেব যা শািস লােভর
েযাগয িকন আেখরােত তুিম িনছক ইহূদী বা ইসরাঈলী হবার কারেণ ভাল জায়গা েপেয় যােব , এটা কখেনা হেত পাের না৷ েতামােদর মেধয সামানযতম িবেবক -বুিদ
থাকেলও েতামরা িনেজরাই বুঝেত পারেব েয, আেখরােতর ভাল জয়গাএকমাত তারাই েপেত পাের যারা দিনয়ায় আলাহর ভেয় ভীত হেয় কাজ কের৷ আর িদতীয় অনুবাদিটর
গহণ করেল মমর এ দঁাড়ায় েয, েযসব েলাক আলাহর ভেয় ভীত নয় একমাত তারাই দিনয়াবী লাভ ও সাথরেক আেখরােতর ওপর অগািধকার েদয়৷ আলাহর ভেয় ভীত

েলােকরা িনিশতভােব আেখরােতর সাথরেক দিনয়ার সােথরর ওপর এবং আেখরােতর কলযাণ ও লাভেক দিনয়ার আেয়শ -আরােমর ওপর অগািধকার িদেয় থােক৷

‫جككَر‬
ْ ‫ضككيُع َأ‬
ِ ‫ل ُن‬
َ ‫لَة ِإّنككا‬
َ ‫صكك‬
ّ ‫ب َوَأَقككاُموا ال‬
ِ ‫ن ِباْلِكَتككا‬
َ ‫سككُكو‬
ّ ‫ن ُيَم‬
َ ‫َواّلككِذي‬
﴾7:170﴿ ‫ن‬
َ ‫حي‬
ِ ‫صِل‬
ْ ‫اْلُم‬
(7:170) Those who hold fast to the Book and establish Prayer - We shall not allow the
reward of such righteous men to go to waste.
(৭:১৭০) যারা িকতােবর িবধান যথাযথভােব েমেন চেল এবং নামায কােয়ম কের, িনসেনেহ এেহন সৎকমরশীল েলােকেদর কমরফল আিম নষ করেবা
না৷

‫خكُذوا َمككا‬
ُ ‫ظّنككوا َأّنكُه َواِقكٌع ِبِهكْم‬
َ ‫ظّلكٌة َو‬
ُ ‫ل َفكْوَقُهْم َككَأّنُه‬
َ ‫جَب‬
َ ‫َوِإْذ َنَتْقَنا اْل‬
﴾7:171﴿ ‫ن‬
َ ‫َآَتْيَناُكْم ِبُقّوٍة َواْذُكُروا َما ِفيِه َلَعّلُكْم َتّتُقو‬
(7:171) And recall when We shook the mountain over them as though it were a canopy,
and they thought that it was going to fall over them; and We said: 'Hold firmly to that
which We have given you, and remember what is in it, that you may guard against
evil. *132
*132. The allusion here is to the event which took place when Moses proclaimed God's Divine
Law at the foot of Mount Sinai.
Then Moses brought the people out of the camp to meet God; and they took their stand at the
foot of the mountain. And Mount Sinai was wrapped in smoke, because the Lord descended
upon it in fire; and the smoke of it went up like the smoke of a kiln, and the whole mountain
quaked greatly. (Exodus 19: 17-18.)
This awesome atmosphere was created by God at the time when He made the people of Israel
enter into a covenant with Him in order to impress upon them the gravity of the event and the
supreme importance of the covenant. It should not be mistakenly assumed, however, that the
people of Israel, who were reluctant to make the covenant, were forced to enter into it. In fact
they were all believers and had gone to the Mount merely to make the covenant. The
extraordinary conditions which God created were such as to make the Israelites realize that
making a covenant with God was not an ordinary matter. They were rather made to feel that
they were entering into a covenant with none other than Almighty God and that violating it
could spell their disaster.
This concludes the discourse especially addressed to the Israelites. From here on the discourse
is directed to all mankind, and particularly to the people whom the Prophet (peace be on him)
addressed directly.
(৭:১৭১) তােদর িক েসই সময়টার কথা িকছু মেন আেছ যখন আিম পাহাড়েক েহিলেয় তােদর ওপর ছাতার মত এমনভােব িবসৃত কের িদেয়িছলাম,

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
েয তারা ধারণা কেরিছল, তা বুিঝ তােদর ওপর পিতত হেব? েস সময় আিম তােদরেক বেলিছলাম , েতামােদরেক আিম েয িকতাব িদিচ তােক
মজবুতভােব আঁকেড় ধেরা এবং তােত যা িকছু েলখা আেছ তা সরণ রােখা, আশা করা যায়, েতামরা ভূল পথ অবলমন করা েথেক বঁাচেত পারেব৷ ১৩২
১৩২. মূসা আলাইিহস সালামেক অংগীকারনামা েখািদত িশলািলিপ গেলা েদবার সময় িসনাই পাহােড়র পাদেদেশ েয ঘটনািট ঘেটিছল েসিদেক এখােন ইংিগত করা হেয়েছ৷
বাইেবেল িনেমাক ভাষায় এ ঘটনািট বণরনা েদয়া হেয়েছ৷
'পের মূসা আলাহর সােথ সাকাত কিরেয় েদয়ার জেনয েলাকেদরেক িশিবর েথেক বাইের আনেলন৷ আর তারা পবরেতর তলায় দঁাড়ােলা৷ তখন সমস িসনাই পবরত ওপর েথেক
নীেচ পযরন েধায়ার পিরপূণর হেয় েগল৷ কারণ মহান আলাহর অিগিশখার মেধয িদেয় তার ওপর েনেম এেলন৷আর ভঁািটর েধঁায়ার মত েধঁায়া ওপের উঠিছল এবং েগাটা পবরত
ভীষণভােব কঁাপিছল"৷ (যাত পুসক ১৯: ১৭-১৮)
এভােব আলাহ িকতােবর িবধান েমেন চলার জেনয বনী ইসরাঈলীেদর কাছ েথেক অংগীকার িনেত িগেয় বাইের তােদর জেনয একিট িবেশষ পিরেবশ সৃিষ কেরন যােত
আলাহর পতাপ-পিতপিত, তঁার েশষত ও মহত এবং এ অংগীকােরর গরত তােদর মেন পুেরাপুির অনুভূত হয় এবং িবশ জাহােনর সাবরেভৌম কমতার একচত অিধকারী
শােহনশােহর সােথ অংগীকার ও চুিক সমাদন করােক তারা েযন মামুিল বযাপার মেন করেত না পাের৷ এ েথেক এ ধারণা করা িঠক হেব না েয, তারা আলাহর সােথ
অংগীকার করেত পসত িছল না, ভয় েদিখেয় েজার জররদিস কের তােদরেক অংগীকারাব হেত উদুদ করা হেয়েছ ৷ আসল বযাপার হেচ তারা সবাই িছল মুিমন৷ িসনাই
পাহােড়র পাদেদেশ তারা িগেয়িছল অংগীকারাবদ হেত৷ িকন আলাহ তােদর সােথ মামুলীভােব অংগীকার ও পিতশিতেত আবদ হবার পিরবেতর এ অংগীকােরর অনুভূিত
তােদর মেন ভালভােব বদমূল করার েচষা কেরন৷ অংগীকার করার সময় েকান মহাশিকধর সতার সােথ তারা অংগীকর করেছ এবং তঁার সােথ অংগীকার ভংগ করার
পিরণাম িক হেত পাের, তা েযন তারা অনুভব করেত পারেব এটাই িছল আলাহর অিভপায়৷
এখােন এেস বনী ইসরাঈল জািতেক সােমাধেনর পালা েশষ হেয় যায়৷ পরবতরী রকূগেলােত সাধারণ মানুষেক লকয কের বকবয েপশ করা হেয়েছ৷ িবেশষ কের নবী সালালাহ
আলাইিহ ওয়া সালাম যােদরেক সরাসির ইসলােমর দাওয়াত িদিচেলন, তাদেরেক লকয কের বকবয রাখা হেয়েছ৷

‫عَلككى‬
َ ‫شكَهَدُهْم‬
ْ ‫ظُهككوِرِهْم ُذّرّيَتُهكْم َوَأ‬
ُ ‫ن‬
ْ ‫ن َبِنككي َآَدَم ِمك‬
ْ ‫ك ِمك‬
َ ‫خَذ َرّب‬
َ ‫َوِإْذ َأ‬
‫ن َتُقوُلوا َيْوَم اْلِقَياَم كِة ِإّنككا كُّنككا‬
ْ ‫شِهْدَنا َأ‬
َ ‫ت ِبَرّبُكْم َقاُلوا َبَلى‬
ُ ‫س‬
ْ ‫َأْنُفسِِهْم َأَل‬
﴾7:172﴿ ‫ن‬
َ ‫غاِفِلي‬
َ ‫ن َهَذا‬
ْ‫ع‬
َ
(7:172) And recall (0 Prophet) *133 when your Lord brought forth descendants from the
loins of the sons of Adam, and made them witnesses against their ownselves. asking
them: 'Am I not your Lord?' They said: 'Yes, we do testify.' *134 We did so lest you claim
on the Day of Resurrection: 'We were unaware of this.'
*133. The preceding discourse concluded with the note that God made the Israelites enter into a
covenant with their Lord. In the following passages all men are told that a covenant with God is
not the exclusive privilege of Israel. In fact all human beings are bound in a covenant with God
and a Day will come when they will be made to answer how well they were able to observe that
covenant.
*134. This event, according to several traditions, took place at the time of the creation of Adam.
Apart from the prostration of the angels before Adam and the proclamation that man would be
God's vicegerent on earth, all the future progeny of Adam were gathered, and were endowed
with both existence and consciousness in order to bear witness to God's lordship. The best
interpretation of this event is found in a statement by, 'Ubayy b. Ka'b, who has probably given
the substance of what he had heard from the Prophet (peace be on him):

God gathered all human beings, divided them into different groups, granted them human form
and the faculty of speech, made them enter into a covenant, and then making them witnesses
against themselves He asked them: 'Am I not your Lord?' They replied: 'Assuredly you are Our
Lord.' Then God told them: 'I call upon the sky and the earth and your own progenitor, Adam,
to be witness against you lest you should say on the Day of Judgement that you were ignorant
of this. Know well that no one other than Me deserves to he worshipped and no one other than
Me is your Lord. So do not ascribe any partner to Me. I shall send to you My Messengers who
will remind you of this covenant which you made with Me. I shall send down to you My
Books.' In reply all said: 'We witness that You are Our Lord and our Deity. We have no lord or
deity other than You.' (Ahmad b. Hanbal, Musnad, vol. 5, p. 135 - Ed.)
This event has also been interpreted by some commentators in a purely allegorical sense. They
are of the opinion that the purpose of the Qur'an is merely to emphasize that the acceptance of
God's lordship is innate in human nature. However, this was narrated in such a way as to
suggest that the event did actually take place. We do not subscribe to this allegorical
interpretation of the primordial covenant of man with God. For both the Qur'an and Hadith
recount it not only as an actual happening, but also affirm that the covenant would be adduced
as an argument against man on the Day of Judgement. There remains, therefore, no ground
whatsoever to interpret the event in terms of mere allegory.
In our own view the event did take place. God caused all human beings whom He intended to
create until the Last Day to come into existence. He endowed upon them life, consciousness
and the faculty of speech, and brought home to them that there is no god or lord besides Him,
and that Islam alone is the right way to serve Him.
If someone considers calling all human beings together in one assembly impossible, that shows,
more than anything else the woeful paucity of his imagination. For if someone accepts that God
has the power to create countless human beings in succession, there is no reason to suppose that
He did not have the power to create them all at some given moment prior to the creation of the
universe, or that He will be unable to resurrect them all at some given moment in the future.
Again, it stands to reason that at a time when God wanted to designate man as His vicegerent
on earth after endowing him with reason and understanding, He took from him an oath of
allegiance. All this is so reasonable that the actual occurrence of the covenant should not cause
any wonder. On the contrary, one should wonder if the event did not take place.
(৭:১৭২) আর েহ নবী! ১৩৩ েলাকেদর সরণ কিরেয় দাও েসই সমেয়র কথা যখন েতামােদর রব বনী আদেমর পৃষেদশ েথেক তােদর বংশধরেদর েবর
কিরেয়িছেলন এবং তােদরেক তােদর িনেজেদর ওপর সাকী বািনেয় িজেজস কেরিছেলনঃ আিম িক েতামােদর রব নই? তারা বেলিছলঃ িনশয়ই তুিম
আমােদর রব , আমরা এর সাক িদিচ৷ ১৩৪ এটা আিম এ জনয কেরিছলাম যােত িকয়ামেতর িদন েতামরা না বেল বেসা, আমরা েতা একথা জানতাম
না ৷
১৩৩. পূববর তরী আেলাচনা েযখােন েশষ হেয়িছল েসখােন বলা হেয়িছল, মহান আলাহ বনী ইসরাঈলেলর কাছ েথক বেনগী ও আনুগেতযর অংগীকার িনেয়িছেলন এখন
সাধারণ মানুষেক সেমাধন কের তােদরেক জানােনা হেচ েয এ বযাপাের বনী ইসরাঈেলর েকান িবেশষত েনই বরং পকৃতপেক েতামরা সবাই িনেজেদর সষার সােথ একিট

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
অংগীকাের আবদ এবং এ অংগীকার েতামরা কতটুকু পালন কেরেছা েস বযাপাের েতামােদর একিদন জবাবিদিহ করেত হেব৷
১৩৪. িবিভন হাদীস েথেক জানা যায় এিট আদম সৃিষর সময়কার একিট ঘটনা৷েস সময় একিদেক েযমন েফেরশতােদর একত কের পথম মানুষিটেক িসজদা করােনা
হেয়িছল এবং পৃিথবীেত মানুেষর িখলাফেতর কথা েঘাষণা করা হেয়িছল, অনযিদেক িঠক েতমিন িকয়াতম পযরন আদেমর েয অগিণত সংখযক বংশধর জনলাভ করেব মহান
আলাহ তােদর সবাইেক একই সংেগ সজীব ও সেচতন সতায় আিবভূরত কের িনেজর সামেন উপিসত কেরিছেলন এবং তােদর কাছ েথেক তার রব হবার বযাপাের সাকয গহণ
কেরিছেলন৷ এ আয়ােতর বযাখযায় হযরত উবাই ইবেন কা'ব রািদয়ালাহ আনহ সমবত নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম েথেক জান লাভ কের যা িকছু বণরনা কেরন তা এ
িবয়েষর সবেচেয় ভাল বযাখযা বেল আমার কােছ মেন হয়েছ৷িতিন বেলনঃ
"মহান আলাহ সবাইেক একত কেরন৷ (এক এক ধরেনর বা এক এক যুেগর ) েলাকেদরেক আলাদা আলাদা দেল সংগিঠত কেরন৷ তােদরেক মানিবক আকৃিত ও বাকশিক
দান কেরন৷ তারপর েথেক অংগীকার গহণ কেরন৷ তােদরেক িনেজেদর ওপর সাকী বািনেয় িজেজস কেরনঃ আিম িক েতামােদর রব নই? তারা বেলঃ অবশযই তুিম আমােদর
রব৷ তখন আলাহ বেলনঃ িকয়ামেতর িদন যােত েতামরা না বলেত পােরা আমরা েতা একথা জানতাম না , তাই আিম েতামােদর ওপর পৃিথবী ও আকাশ এবং েতামােদর
িপতা আদমেক সাকী করিছ৷ ভালভােব েজেন রােখা, আিম ছাড়া ইবাদত লােভর েযাগয আর েকউ েনই এবং আিম ছাড়া আর েকান রব েনই৷ েতামরা আমার সােথ আর
কাউেক শরীক কেরা না৷ আিম েতামােদর কােছ আমার নবী পাঠােবা ৷ আমার সােথ েতামরা েযসব অংগীকার করেছা তারা েসসব েতামােদর সরণ কিরেয় েদেব৷ আর
েতামােদর পিত আমার িকতাব নািযল করেবা৷ এ কথায় সমস মানুষ বেল ওেঠঃ আমরা সাকয িদিচ, তুিমই আমােদর রব, তুিমই আমােদর মা'বুদ, তুিম ছাড়া আমােদর আর
েকান রব ও মাবুদ েনই৷"
েকউ েকউ এ বযাপারিটেক িনছক রপক বা উপমা িহেসেব বিণরত একিট বযাপার মেন কের থােকন৷তােদর মেত এখােন কুরআন মজীদ েকবল একথাই বুঝােত চায় েয,
আলাহর রব হবার িবষয়িট সীকৃিত মানিবক পকৃিতর মেধয িনিহত রেয়েছ এবং এ কথািট এখােন এমনভােব বিণরত হেয়েছ েযমন এিট বাসব জগেত অনুিষত একিট ঘটনা
িছল ৷ িকন এ বযাখযােক আিম সিঠক মেন কির না৷ কুরআনও হাদীেস এিটেক একিট বাসব ঘটনা িহেসেব বণরনা করা হেয়েছ৷ আর শধু ঘটনা িহেসেব বণরনা কেরই েশষ কের
েদয়া হয়িন বরং এ সংেগ একথাও বলা হেয়েছ েয, িকয়ামেতর িদন অনািদকােলর এ অংগীকারিটেক মানুেষর িবরেদ একিট দলীল ও পমাণ িহেসেব েপশ করা হেব৷ কােজই
এেক িনছক একিট রপক বণরনা গণয করার েকান কারণ আিম েদিখ না৷ আমার মেত, বাসেব েযমন িবিভন ঘটনা ঘেট থােক িঠক েতমিনভােব এ ঘটনািটও ঘেটিছল৷ মহান
ও সবরশিকমান আলাহ িকয়ামত পযরন েযসব মানুষেক সৃিষ করেত েচেয়িছেলন৷ তােদর সবাইেক বাসেব একই সংেগ জীবন,েচতনা ও বাকশিক দান কের িনেজর সামেন
হািযর কেরিছেলন এবং বাসেব তােদরেক এ সতযিট সমেকর পুেরাপুির অবিহত কেরিছেলন েয, তঁার মহান, পিবত ও উনত সতা ছাড়া তােদর আর েকান রব ও ইলাহ েনই
এবং তঁার বেনগী ও হকুেমর আনুগতয (ইসলাম) ছাড়া তােদর জেনয আর েকান সিঠক জীবন িবধান েনই৷ এ সেমলন অনুষানেক েকান বযিক যিদ অসমব মেন কের থােক
তাহেল এিট িনছক তার িচনার পিরসেরর সংকীণরতার ফল ছাড়া আর িকছুই নয়৷ অনযথায় বাসেব মানব সনােনর বতরমান পযরায়কিমক জন ও িবকাশ যতটা সমব সৃিষর
আিদেত তার সামিষক আিবভরাব ও অেন তার সামিষক পুনরতান ও সমােবশ িঠক ততটাই সমবপর৷ তাছাড়া মানুেষর মত একিট সেচতন, বুিদমান, ও সাধীন কমতা সমন
সৃিষেক পৃিথবীেত িনেজর পিতিনিধ িহেসেব িনযুিকর পাকােল আলাহর পক েথেক তােক পকৃত সতয জািনেয় েদয়া এবং তার কাছ েথেক িনেজর পেক িবশসতার অংগীকার
িনেয় েনয়াটা অতযন যুিকসংগত বেলই মেন হেচ৷ এ ধরেনর একটা ঘটনা ঘটা েমােটই িবসয়কর নয়৷ বরং এ ধরেনর একটা ঘটনা না ঘটেলই অবাক হেত হেতা৷

‫ن َبْع كِدِهْم َأَفُتْهِلكَُنككا‬
ْ ‫ل َوُكّنا ُذّرّيًة ِم ك‬
ُ ‫ن َقْب‬
ْ ‫ك َآَباُؤَنا ِم‬
َ ‫شَر‬
ْ ‫َأْو تَُقوُلوا ِإّنَما َأ‬
﴾7:173﴿ ‫ن‬
َ ‫طُلو‬
ِ ‫ل اْلُمْب‬
َ ‫ِبَما َفَع‬
(7:173) Or say: 'Our forefathers before us who associated others with Allah in His
divinity; we were merely their offspring who followed them. And would You destroy us
for that which the unrighteous did?' *135
*135. The verse describes the purpose of the primordial covenant. The purpose is to make
every person responsible for his deeds so that if he rebels against God he will be held fully
accountable for that rebelfion. Because of the covenant, no one will be able either to plead for
acquittal on grounds of ignorance, or blame his misdeeds on his ancestors. In other words, this
primordial covenant has been mentioned as the reason for the inherent awareness in every
single person that God is the only Lord and Deity. Thus, none can totally absolve himself of his
responsibility on the plea that he was altogether ignorant, or transfer the blame for his error to
the corrupt environment in which he was brought up. Now, it can be argued that even if the
covenant did take place, no human being remembers its occurrence. No human being is aware
that a long time ago, at the time of creation, he had affirmed, in response to God's query, that
God indeed was his Lord. This being the case, it can be further argued that no charge can be

legitimately brought against man on the ground of a covenant with God which he no longer
remembers to have made. In response to this it can be said that had the covenant been made
fully in man's conscious memory, it would be meaningless for God to put man to the test in this
world. Hence, there can be no denying that the covenant is not preserved in man's conscious
memory. But it has doubtlessly been preserved in man's sub-conscious mind. In this respect the
primordial covenant is no different from other pieces of knowledge in man's sub-conscious
mind. Whatever man has so far achieved in the way of culture and civilization can be attributed
to his latent potentialities. All external factors and internal motivations simply account for
helping the actualization of those potentialities. Neither education nor training nor
environmental factors can bring out anything which is not potentially found in the human mind.
Likewise, external factors have no power to root out man's latent potentialities. External factors
may, at the most, cause a person to deflect from the course dictated by sound human nature.
However, man's sound nature is inclined to resist the pressure of external forces and exert itself
in order to find an outlet. As we have said earlier, this is not peculiar to man's religious
propensity alone, but is equally true of all his mental potentialities. In this regard the following
points are particularly noteworthy:
(1) All man's potentialities exist in the sub-conscious mind and prove their existence when they
manifest themselves in the form of human action.
(2) The external manifestation of these potentialities requires external stimuli such as
instruction, upbringing. and attitudinal orientation. In other words, our actions consist of the
responses of our inherent potentialities to external stimuli.
(3) Man's inner potentialities can be suppressed both by false urges within him as well as
external influences by trying to pervert and distort those latent potentialities. The potentialities
themselves, however, cannot he totally rooted out.
The same holds true of man's intuitive knowledge regarding his position in the universe and his
relationship with his Creator. In this connection the following points should be borne in mind:
(1) That man has always had such intuitive knowledue is evident from the fact that this
knowledge has surfaced throughout history in every period and in every part of the world, and
which no power has so far been able to extirpate.
(2) That this intuitive knowledge conforms to objective reality, is borne out by, the fact that
whenever this knowledge has influenced human life, it has had beneficial results.
(3) That in order to manifest itself in his practical life, man's intuitive knowledge has always
required external stimuli. The stimuli have consisted of the advent of the Prophets (peace be on
them), the revelation of the Heavenly Books, and the striving of those who have tried to follow
them and invite others to do the same. It is for this reason that the Qur'an has been desienated as
mudhakkir (the reminder): dhikr (remembrance); tadhkirah (admonition). and the function of

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

the Qur'an has been characterized as tadhkir(reminding). What this suggests is that the
Prophets, the Heavenly Books and those who invite people to the truth do not seek to provide
human beings with something new, something which exists outside of them. Their task rather
consists of bringing to the surface and rejuvenating what is latent, though dormant, in man
himself.
Throughout the ages man has always positively responded to this 'Reminder'. This itself is
testimony to the fact that it is embodied in a knowledge which has always been recognized by;
man's soul.
Forces arising from ignorance and obscurantism, lust and bigotry, and the erroneous teachings
and promptings of devils - human as well as jinn - have always attempted to suppress, conceal,
and distort the fact that the truth preached by the Prophets is embedded in man's soul. These
attempts gave rise to polytheism, atheism, religious misdirection and moral corruption. Despite
the combined efforts of the forces of falsehood, however, this knowledge has always had an
imprint on the human heart. Hencel, whenever any effort was made to revive that knowledge, it
has proved successful.
Doubtlessly those who are bent on denying the truth can resort to a great deal of sophistry in
order to deny or at least create doubt and confusion about the existence of this knowledge.
However on the Day of Resurrection the Creator will revive in man the memory of the first
assembly when man made his covenant with God and accepted Him as his Only Lord. On that
occasion God will provide evidence to the effect that the covenant always remained imprinted
on man's soul. He will also show how from time to time man tried to suppress his inner voice
which urged him to respond to the call of the covenant; how again and again his heart pressed
him to affirm the truth; how his intuition induced him to denounce the errors of belief and
practice; how the truth ingrained in his soul tried to express itself and respond to those who
called to it; and how on each occasion he lulled his inner self to sleep because of his lust and
bigotry.
However a Day will come when man will no longer be in a position to put forth specious
arguments to justify his false claims. That will be the Day when man will have no option but to
confess his error. It will then be impossible for people to say that they were ignorant, or
negligent. In the words of the Qur'an: '...and they will bear witness against themselves that they
had disbelieved' (al-An'am 6: 130).
(৭:১৭৩) অথবা না বেল ওেঠা, িশরেকর সূচনা েতা আমােদর বাপ -দাদারা আমােদর পূেবরই কেরিছেলন এবং পরবতরীকােল তােদর বংেশ আমােদর

জন হেয়েছ৷ তেব িক ভষাচারী েলােকরা েয অপরাধ কেরিছল েস জনয তুিম আমােদর পাকড়াও করেছা? ১৩৫

১৩৫. আিদকােল তথা সৃিষর সূচনা লেগ সমগ মানব জািতর কাছ েথেক েয অংগীকার েনয়া হেয়িছল এখােন তার উেদশয বণরনা করা হেয়েছ৷ েসই উেদশয হেচ মানব

জািতর মেধয েথেক যারা আলাহর িবরেদ িবেদাহাতক আচরণ করেব তারা েযন িনেজরাই িনেজেদর এ অপরােধর জেনয সমূণররেপ দায়ী হয়৷ িনেজেদর সাফাই গাইবার
জেনয না জানার ওজুহাত েপশ করার েকান সুেযাগ েযন তােদর না থােক এবং পূবরবতরী বংশধরেদর ওপর িনেজেদর েগামরাহীর সমস দায়-দািয়ত চািপেয় িদেয় িনেজরা
দায়মুক হেতও না পাের৷ অনয কথায় বলাযায়, পেতযকিট মানুষ বযিকগত পযরােয় িনেজর মেধয আলাহর একমাত ইলাহ ও একমাত রব হবার সাক ও সীকৃিত বহন কের
চেলেছ, আিদতম অংগীকারেক আলাহ পেতযকিট মানুেষর জেনয এির পমাণ িহেসেব গণয কেরেছন৷ এ জেনয েকান বযিক িনেজর অজতা অথবা ভান পিরেবেশ লািলত হবার
কারেণ তার েগামরাহীর জেনয েমােটই দায়ী নয়, একথা েকানকেমই বলা েযেত পাের না৷
এখন পশ েদখা িদেচ, সৃিষর পথম িদেনর এ অংগীকার যিদ বাসেব সংঘিটত হেয়ও থােক তাহেল তা িক আমােদর েচতনা ও সৃিতপেট সংরিকত আেছ? আমােদর মধয
েথেক েকান একজনও িক একথা জােন , সৃিষর সুচনা লেগ তােক আলাহর সামেন েপশ করা হেয়িছল, েসখােন তার সামেন ----(আিম িক েতামােদর রব নই? ) পশ করা
হেয়িছল এবং তার জবােব েস বলিছল ------(হঁযা?)জবাব যিদ েনিতবাচক হেয় থােক, তাহেল েয অংগীকােরর কথা আমােদর েচতনা ও সৃিতপেট েথেক উধাও হেয় েগেছ
তােক েকমন কের আমােদর িবরেদ পমাণ িহেসেব গণয করা েযেত পাের?
এর জবােব বলা যায়, েসই অংগীকােরর কথা যিদ মানুেষর েচতনা ও সৃিতপেট জাগরক রাখা হেতা তাহেল, মানুষেক দিনয়ার বতরমান পরীকাগাের পাঠােনা বযাপারটা
এেকবাের অথরহীন হেয় েযেতা৷ কারণ এরপর পরীকার আর েকান অথরই থাকেতা না৷ তাই এ অংগীকােরর কথা েচতনা ও সৃিতপেট জাগরক রাখা হয়িন িঠকই িকন
অবেচতন মেন ও সুপ অনুভূিতেত তােক অবিশয সংরিকত রাখা হেয়েছ৷ তার অবসা আমােদর অবেচতন ও অনুভূিত সঞাত অনযানয জােনর মতই৷ সভযতা, সংসৃিত, ৈনিতক
ও বযবহািরক জীবেনর সকল িবভােগ মানুষ আজ পযরন যা িকছুর উদব ঘিটেয়িছল তা সবই আসেল মানুেষর মেধয পচনভােব িবরািজত িছল৷ বাইেরর কাযরকারণ ও িভতেরর
উেদযাগ আেয়াজন ও েচষা সাধনা িমেলিমেশ েকবলমাত অবযকেক বযক করার কাজটুকুই সমাদন কেরেছ৷ এমন েকান িজিনস যা মানুেষর মেধয অবযকভােব িবরািজত িছল
না, তােক েকান িশকা , অনুশীলন ,পিরেবেশর পভাব ও আভযনরীন েচষা-সাধনার বেল েকানকেমই তার মেধয সৃিষ করা সমব নয় এিট একিট জাজলযমান সতয৷ আর এ
পভাব -পেচষাসমূহ িনেজর সবরশিক িনেয়াগ করেলও মানুেষর মেধয েযসব িজিনস অবযকভােব িবরািজত রেয়েছ তােদর েকানিটেকও পুেরাপুির িনিশহ কের েদবার কমতা
রােখ না৷ বড় েজার তারা তােক তার মূল সাভাব পকৃিত েথেক িবকৃত করেত পাের মাত৷ তবুও সব রকেমর িবকৃিত ও িবপথগামীতা সেতও েসই িজিনসিট তার মেধয িবদযমান
থাকেব, আতপকােশর পেচষা চালােত থাকেব এবং বাইেরর আেবদন সাড়া েদয়ার জেনয সবরকণ উনুখ থাকেব৷ এ বযাপারিট েযমন আিম ইিতপূেবর বেলিছ , আমােদর সকল
পকার অবেচতন ও পচন অনুভূিত লব জােনর েকেত সবরেতাভােব সতযঃ
:এগেলা সবই আমােদর মধয অবযকভােব রেয়েছ৷ আমরা বাসেব যা িকছু বযক কির এবং েযসব কাজ কির তার মাধযেমই এগেলার অিসেতর িনিশত পমাণ আমরা েপেয়
থািক৷
: এগেলার কাযরকর অিভবযিকর জেনয বাইেরর আেলাচনা (সরণ কিরেয় েদয়া)িশকা, অনুশীলন ও কাঠােমা িনমরােণর পেয়াজন হয়৷ আর আমােদর দারা বাসেব যা িকছু
সংঘিটত হয়, তা আসেল বাইেরর েসই আেবদেনরই সাড়া বেল পতীয়মান হয় যা আমােদর মেধয সুপভােব িবরাজমান িজিনসসমূেহর পক েথেক এেস থােক৷
: িভতেরর ভান কামনা বাসনা ও বাইেরর পিতকূল পভাব, পিতপিত ও কাযরকম এগেলােক দািবেয় িদেয় িবকৃত ও িবপথগামী কের এবং এগেলার ওপর আবরণ েফেল িদেয়
এগেলােক িনেসজ ও িনিষয় কের িদেত পাের িকন সমূণররেপ িনিশহ কের িদেত পাের না৷ আর এজেনযই িভতেরর েচতনা ও বাইেরর পেচষা -উভেয়র সহায়তায়, সংসার,
সংেশাধন ও পিরবতরন (conversion) সমবপর৷
িবশ জাহােন আমােদর যথাথর মযরাদা এবং িবশ জাহােনর সষার সােথ আমােদর সমেকরর বযাপাের আমরা েয সুপ েচতনালব জােনর অিধকারী তার অবসাও এ একই
পযরায়ভুকঃ এ জান েয আবহামানকাল ধেরই িবরাজমান তার পমাণ হেচ এই েয,তা মানব জীবেনর পিত যুেগ পৃিথবীর সব এলাকায়, পিতিট জনপেদ পেতযকিট বংেশ
পজেন ও পিরবাের আতপকাশ কেরেছ এবং কখেনা দিনয়ার েকান শিকই তােক িনিশহ করেত সকম হয়িন৷
: ঐ জান েয পকৃত সেতযর অনুরপ তার পমাণ হেচ এই েয, যখনই তা আতপকাশ কের আমােদর জীবেন সিকয় ভূিমকা পালন করেছ তখনই তা সুষথ ও কলযাণকর
ফল পদান করেত সকম হেয়েছ৷
: তার আতপকাশ করার ও কাযরকর রপলাভ করার জেনয সবসময় একিট বিহরাগত আেবদেনর পেয়াজন হেয়েছ৷ তাই নবীগণ, আসমানী িকতাবসমূহ ও তােদর
আনুগতযকারী সেতযর আহবায়কেদর সবাই এ দািয়তই পালন কের এেসেছন৷ এ জেনযই কুরআেন তােদরেক মুযিকর (সারক) এবং তােদর কাজেক তাযকীর (সরণ কিরেয়
েদয়া), িযকর (সরণ )ও তাযিকরাহ(সৃিত) ইতযািদ শবাবলীর মাধযেম পকাশ করা হেয়েছ ৷ এর অথর দঁাড়ায় নবীগণ ,িকতাবসমূহ ও সেতযর আহবায়কগণ মানুেষর মেধয
েকান নতুন িজিনস সৃিষ কেরন না, বরং তার মেধয আেগ েথেকই েয িজিনসিটর অিসত িবরাজ করিছল তােক জািগেয় েতােলন এবং নতুন জীবনীশিক দান কেরন মাত৷
: মানবাতার পক েথেক পিত যুেগ এ সরণ কিরেয় েদবার পয়ােস ইিতবাচক সাড়া েদয়া হেয়েছ ৷ তার মেধয েয পকৃতপেক এমন এক জান সুপ িছল , যা িনেজর
আহবায়কারীরা আওয়াজ িচনেত েপের তার জবাব েদবার জেনয েজেগ উেঠেছ, এিট তার আর একিট পমাণ৷
: তারপর মূখরতা, অজতা, ইিনয় িলপা, সাথরপীিত এবং মানুষ ও িজেনর বংশদুত শয়তানেদর িবভািনকর িশকা ও পেরাচনা তােক সবসময় দািবেয় রাখার, িবপথগামী ও
িবকৃত করার পেচষা চািলেয়েছ৷ এর ফেল িশরক, আলাহ িবমুখতা , আলাহর িবরেদ িবদাহ এবং ৈনিতক ও কমর েকেত িবপযরয় েদখা িদেয়েছ৷ িকন িবভািন ও ভষতার এ
সমুদয় শিকর সিমিলত পেচষা সেতও েসই জােনর জনগত ছাপ মানুেষর হদয়পেট েকান না েকান পযরােয় অকুণন েথেকেছ৷ এ জেনযই সরণ কিরেয় েদয়াও নবায়েনর
পেচষা তােক জািগেয় েতালার বযাপাের সফল ভুিমকা পালন কের এেসেছ৷
অবিশয দিনয়ার বতরমান জীবেন যারা পরম সতয ও বাসবতােক অসীকার করেত বদপিরকর তারা িনেজেদর তথাকিথত যুিকবােদর িভিতেত জনগতভােব হদয়ফলেক েখািদত
এ িলিপিটর অিসত অসীকার করেত পাের অথবা কমপেক এেক সেনহযুক সাবযস করেত পাের৷ িকন েযিদন িহেসব িনেকশ ও িবচােরর আদালত পিতিষত হেব েসিদন
মহাশিকশালী সষা তােদর েচতনা ও সৃিতপেট সৃিষর পথম িদেনর েসই সেমলনিটর সৃিত জািগেয় তূলেবন৷ সৃিষর পথম িদেন তারা একেযােগ েয মহান সৃষােক তােদর
একমাত রব ও মাবুদ বেল সীকার কের িনেয়িছল েসই সৃিত আবার পুেরাদেম তরতাজা কের েদেবন৷ তারপর িতিন তােদর িনেজেদর অভযনর েথেক পমাণ সংগহ কের এ
অংগীকরিলিপ েয তােদর হদেয় সবসময় েখািদত িছল তা েদিখেয় েদেবন৷তােদর জীবেনর সংরিকত কাযরিববরণী েথেক সবরসমেক এও েদিখেয় েদেবন েয, তারা িকভােব
হদয়ফলেক েখািদত েস িলিপিট উেপকা কেরেছ, কখন েকান সময় তােদর হদেয়র অভযনর েথেক এ িলিপর সতযতার সীকৃিত সগতভােব উচািরত হেয়েছ, িনেজর ও
িনেজর চারপােশর ভষতার ওপর তােদর িবেবক েকাথায় কখন অসমিত ও িবেদােহর আওয়াজ বুলন কেরেছ, সেতযর আহবায়কেদর আহবােনর জবাব েদয়ার জেনয তােদর
অভযনেরর লুকােনা জান কতবার কত জায়গায় আতপকােশ উনুখ হেয়েছ এবং তারা িনেজেদর সাথরপীিত ও পবৃিতর লালসার বশবতরী হেয় েকান ধরেনর তাট বাহানার
মাধযেম তােক কমাগত পতািরত ও সব কের িদেয়েছ৷ েসিদন যখন এসব েগাপন কথা পকাশ হেয় পড়েব তখন যুিক-তকর করার অবকাশ থাকেব না বরং পিরষারভােব
অপরাধ সীকার কের িনেত হেব ৷ তাই কুরআন মিজদ দযথরহীন ভাষায় েঘাষনা কেরেছঃ েসিদন অপরাধীরা একথা বলেব না, আমরা মুখর িছলাম অজ িছলাম , আমরা গােফল
িছলাম বরং তারা একথা বলেত বাধয হেব, আমরা কােফর িছলাম, অথরাৎ আমরা েজেন বুেঝ সতযেক অসীকার কেরিছলাম৷

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
-----------------------------------"আর তারা িনেজেদর বযাপােরই সাক েদেব, তারা কােফর তথা অসীকার ও পতযাখযানকারী িছল৷" (আনআমঃ ১৩০)

﴾7:174﴿

َ ‫جُعو‬
‫ن‬
ِ ‫ت َوَلَعّلُهْم َيْر‬
ِ ‫لَيا‬
َْ ‫ل ا‬
ُ‫ص‬
ّ ‫ك ُنَف‬
َ ‫َوَكَذِل‬

(7:174) And thus do We expound the signs *136 that they may turn back (to the right
path). *137
*136. 'Signs' here refer to the imprints made by knowledge of the truth on the human heart
which help towards cognition of the truth.
*137. 'To return' here signifies giving up rebellion, and reverting to obedience to God.
(৭:১৭৪) েদেখা, এভােব আিম িনদশরনসমূহ সুষষভােব েপশ কের থািক৷ ১৩৬ আর এ জনয কের থািক যােত তারা িফের আেস৷ ১৩৭
১৩৬. অথরাৎ সতযেক উপলিদ করার ও িচেন েনবার েযসব উপরকরণ ও িনদশরন মনুেষর িনেজর মেধয রেয়েছ েসগেলা পিরসারভােব তুেল ধির৷
১৩৭. অথরাৎ িবেদাহ ও িবকৃিত -িবভািনর নীিত পিরতযাগ কের বেনগী ও আলাহর আনুগেতযর আচরেণর িদেক েযন িফের আেস৷

َ ‫ن َفَكككا‬
‫ن‬
ُ ‫طا‬
َ ‫شكْي‬
ّ ‫خ ِمْنَها َفَأْتَبَعُه ال‬
َ ‫سَل‬
َ ‫عَلْيِهْم َنَبَأ اّلِذي َآَتْيَناُه َآَياِتَنا َفاْن‬
َ ‫ل‬
ُ ‫َواْت‬
﴾7:175﴿ ‫ن‬
َ ‫ن اْلَغاِوي‬
َ ‫ِم‬
(7:175) And recite to them [O Muhammad] the story of the man to whom We gave Our
signs *138 and who turned away from them; then ultimately Satan caught up with him and
he was led astray.
*138. The words of the text seem to indicate that the person mentioned must indeed be a
specific rather than an imaginary figure mentioned for the sake of parable. It may, be borne in
mind that God and His Messenger (peace be on him) usually mention evil without specific
references to any individual. This is obviously in keeping with their dignity. Only examples of
evil are mentioned since those examples are meant for didactic purposes, and this is done
without smearing anyone's reputation.
Some commentators on the Qur'an, however, have applied the statement made here to some
persons who lived in the time of the Prophet (peace be on him) as well as before him. Some of
them mention the name of Bal'am b. Ba'ura', others that of Umayyah b. Abi al-Salt, and still
others that of Sayfi b. al-Rahib. (See the comments of Qurtubi on verses 175 and 176 - Ed.)
Nonetheless, in the absence of any authentic information about the identity of the persons under
discussion, we might as well consider the description made here to fit a certain type of person.
(৭:১৭৫) আর েহ মুহামাদ! এেদর সামেন েসই বযিকর অবসা বণরনা কেরা যােক আিম দান কেরিছলাম আমার আয়ােতর জান৷

১৩৮

িকন েস তা

যথাযথভােব েমেন চলা েথেক দূের সের যায়৷ অবেশেষ শয়তান তার িপছেন লােগ৷ েশষ পযরন েস িবপথগামীেদর অনরভুক হেয়ই যায়৷
১৩৮. এ বাকযিটেত েকান এক িনিদরষ বযিকর পিত ইিঙত করা হেয়েছ বেল মেন হয়৷িকন আলাহ ও তঁার রসূেলর উৎকৃষতম ৈনিতক মানও এ েকেত পিনধানেযাগয ৷ তঁার
যখনই কােরার েকান দসৃিতর উদাহরণ েদন তখন েদাষিট উদাহরণ িহেসেব উেলখ কেরন না৷বরং তার বযিকেতর উহয েরেখ শধুমাত তার েদাষিট উদাহরণ িহেসেব উেলখ
কেরন৷এভােব সংিশষ বযিকর অবমাননা ও লাঞনা ছাড়াই আসল উেদশয সফল হেয় যায় ৷ তাই েয বযিকর দৃষান এখােন েপশ করা হেয়েছ কুরআন ও হাদীেসর েকাথাও
তার পিরচয় পকাশ করা হয়িন৷ মুফাসিসরগণ রসূেলর যুেগর এবং তঁার পূববর তরী যুেগর িবিভন ঐিতহািসক বযিকতেক এ দৃষােনর লকয বেল িচিহত কেরেছন৷ েকউ বাল'আম
ইবেন বাউরার নাম িনেয়েছন৷ েকউ িনেয়েছন উমাইয়া ইবেন আবীস সালেতর নাম৷আবার েকউ বেলেছন , এ বযিক িছল সাইফী ইবনুর রােহব৷ িকন পকৃতপেক উদাহারণ
িহেসেব েয িবেশষ বযিকর ভুিমকা এখােন েপশ করা হেয়েছ েস েতা পদরানরােলই রেয় েগেছ৷তেব েয বযিকই এ ভূিমকায় অবতীণর হেব তার বযাপাের এ উদাহরণিট পেযাজয
হেবই৷

ُ‫ض َواّتَبكَع َهكَواُه َفَمَثُلكه‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫خَلكَد ِإَلكى ا‬
ْ ‫شْئَنا َلَرَفْعَناُه ِبَهكا َوَلِكّنكُه َأ‬
ِ ‫َوَلْو‬
‫ل اْلَق كْوِم‬
ُ ‫ك َمَث ك‬
َ ‫ث َذِل ك‬
ْ ‫ث َأْو َتْتُرْكُه َيْلَه ك‬
ْ ‫عَلْيِه َيْلَه‬
َ ‫ل‬
ْ ‫حِم‬
ْ ‫ن َت‬
ْ ‫ب ِإ‬
ِ ‫ل اْلَكْل‬
ِ ‫َكَمَث‬
﴾7:176﴿ ‫ن‬
َ ‫ص َلَعّلُهْم َيَتَفّكُرو‬
َ ‫ص‬
َ ‫ص اْلَق‬
ِ ‫ص‬
ُ ‫ن َكّذُبوا ِبَآَياِتَنا َفاْق‬
َ ‫اّلِذي‬
(7:176) Now had We so willed We could indeed have exalted him through those signs,
but he clung to earthly life and followed his carnal desires. Thus his parable is that of the
dog who lolls out his tongue whether you attack him or leave him alone. *139 Such is the
parable of those who reject Our signs as false. Narrate to them these parables that they
may reflect.
*139. Since the statement here embodies a very significant point, it needs to be carefully
examined. The person mentioned in the verse as the representative of the evil type possessed
knowledge of God's signs, and hence of the truth. This should have helped him to give up an
attitude which he knew to be wrong, and to act in a manner which he knew to be right. Had he
followed the truth and acted righteously God would have enabled him to rise to higher levels of
humanity. He, however, overly occupied himself with the advantages, pleasures, and
embellishments of the worldly life. Instead of resisting worldly temptations, he totally,
succumbed to them so much so that he abandoned altogether his lofty spiritual ambitions and
became indifferent to the possibilities of intellectual and moral growth. He even brazenly,
violated all those limits which, according to his knowledge. should have been observed. Hence
when he deliberately turned away from the truth merely because of his moral weakness, he was
misled by Satan who is ever ready to beguile and mislead man. Satan continually led him from
one act of depravity to another until he landed him in the company of those who are totally
under Satan's control and who have lost all capacity for rational judgement.
This is followed by a statement in which God likens the person in question to a dog. A dog's
protruding tongue and the unceasing flow of saliva from his mouth symbolize unquenchable
greed and avarice. The reason for likening the human character described above to a dog is
because of his excessive worldliness. It is known that in several languages of the world it is
common to call people overly devoted to worldliness as 'dogs of the world'. For what, after all,
is the characteristic of a dog? It is nothing else but greed and avarice. Just look at the dog! As

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

he moves around, he continuously sniffs the earth. Even if a rock is hurled at him he runs at it
in the hope that it might be a piece of bone or bread. Before he discovers it to be a rock, he
hastens to seize it in his mouth. Even a person's indifference does not deter a dog from waiting
expectantly for food - panting for breath, his tongue spread out and drooping, and a whole
world from one perspective alone - that of his belly! Even if he discovers a large carcass, he
would not be content with his portion of it, but would try to make it exclusively his and would
not let any other dog even come close. It seems that if any urge other than appetite tickles him,
it is the sexual urge. This metaphor of the dog, highlights the fate of the worldly man who
breaks loose from his faith and knowledge, who entrusts his reins to blind lust and who ends up
as one wholly devoted to gratifying his own appetite.
(৭:১৭৬) আিম চাইেল ঐ আয়াতগেলার সাহােযয তােক উচ মযরাদ দান করতাম িকন েস েতা দিনয়ার পিতই ঝুঁেক রইল এবং িনেজর পবৃিতর
অনুসরণ করেলা৷ কােজই তা অবসা হেয় েগল কুকুেরর মত , তার ওপর আকমণ করেলও েস িজভ ঝুিলেয় রােখ আর আকমণ না করেলও িজভ
ঝুিলেয় রােখ৷ ১৩৯ যারা আমার আয়াতেক িমথযা সাবযস কের তােদর দৃষান এটাই৷ তুিম এ কািহনী তােদরেক শনােত থােকা, হয়েতা তারা িকছু িচনা
-ভাবনা করেব৷
১৩৯. এ দিট সংিকপ বােকয অতযন গরতপূণর িবষয় বণরনা করা হেয়েছ৷ এ িবষয়িট একটু িবসািরতভােব অনুধাবন করা পেয়াজন৷ এখােন েয বযিকর উদাহরণ েপশ করা
হেয়েছ েস আলাহর িকতােবর জােনর অিধকারী িছল৷ অথরাৎ পকৃত সতয সমেকর অবিহত িছল৷ এ ধরেনর জােনর অিধকারী হবার কারেণ েয কমরনীিতেক েস ভূল বেল
জানেতা তা েথেক দূের থাকা এবং েয কমরনীিতেক সিঠক মেন করেতা তােক অবলমন করাই তার উিচত িছল৷ এ যথাথর জান অনুযায়ী কাজ করেল আলাহ তােক মানবতার
উচতর পযরােয় উনীত করেতন৷ িকন েস দিনয়ার সাথর , সাদ ও আরাম আেয়েশর িদেক ঝুঁেক পেড়৷পবৃিতর লালসার েমাকািবলা করার পিরবেতর েস তার সামেন নতজানু হয়৷
উচতর িবষয় সমূহ লােভর জেনয েস পািথরব েলাভ-লালসার উেধর ওঠার পিরবেতর তার মেধয এমনভােব ডুেব যায় যার ফেল িনেজর সমস উচতর আশা -আকাংখা,
বুিদবৃিতক ও ৈনিতক উনিতর সমস সমবনা পিরতযাগ কের বেস৷ তার িনেজর জান েযসব সীমানা রকণােবকেণর দাবী জািনেয় আসিছল েসগেলা লংঘন কের এিগেয় চলেত
থােক৷ তারপর যখন েস িনছক ৈনিতক দবরলতার কারেণ েজেন বুেঝ সতযেক উেপকা কের এিগেয় চলেলা৷ তখন তার িনকেটই ওঁৎ েপেত থাকা শয়তান তার েপছেন েলেগ
যায় এবংঅনবরত তােক এক অধপতন েথেক আর এক অধপতেনর িদেক েটেন িনেয় েযেত থােক৷অবেশেষ এ জােলম শয়তান তােক এমন সব েলােকর দেল িভিড়েয় েদয়
যারা তার ফঁােদ পা িদেয় বুিদ িবেবক সব িকছু হািরেয় বেসিছল৷
এরপর আলাহ এ বযিকর অবসােক এমন একিট কুকুেরর সােথ তুলনা কেরেছন যার িজভ সবসময় ঝুেল থােক এবং এ ঝুলন িজভ েথেক অনবরত লালা টপেক পড়েত
থােক৷ এেহন অবসা তার উগ লালসার আগন ও অতৃপ কামনার কথা পকাশ কের৷ েয কারেণ আমােদর ভাষায় আমরা এেহন পািথরব লালসায় অন বযিকেক দিনয়ার কুকুর
বেল থািক৷ িঠক েসই একই কারেণ এ িবষয়িটেক এখােন উপমার িভিত িহেসেব গহণ করা হেয়েছ৷কুকুেরর সভাব িক? েলাভ ও লালসা ৷ চলােফরার পেথ তার নাক সব
সময় মািট শকেত থােক,হয়েতা েকাথাও েকান খাবােরর গন পাওয়া যােব এ আশায়৷ তার গােয় েকউ েকান পাথর ছুেড়ঁ মারেলও তার ভুল ভাংেব না৷রবং তার মেন সেনহ
জাগেব, েয িজিনসিট িদেয় তােক মারা হেয়েছ েসিট হয়েতা েকান হাড় বা রিটর টুকরা হেব৷ েপট পূজারী েলাভী কুকুর একবার লািফেয় েদৌেড় িগেয় েসই িনিকপ পাথরিটও
কামেড় ধের৷ পিথক তার িদেক েকান দৃিষ না িদেলও েদখা যােব েস েলাভ-লালসার পিতমূিতর হেয় িবরাট আশায় বুক েবঁেধ িজভ ঝুিলেয় দঁািড়েয় হাপােচ৷ েস তার েপেটর
দৃিষ িদেয় সারা দিনয়ােক েদেখ৷ েকাথাও যিদ েকান বড় লাশ পেড় থােক, কেয়কিট কুকুেরর েপট ভরার জেনয েসিট যেথষ হেলও একিট কুকুর তার মেধয েথেক েকবলমাত
তার িনেজর অংশিট িনেয়ই কান হেব না বরং েসই সমূণর লাশিটেক িনেজর একার জেনয আগেল রাখার েচষা করেব এবং অনয কাউেক তার ধাের কােছও েঘঁসেত েদেব না৷
এ েপেটর লালসার পর যিদ িদতীয় েকান বস তার ওপর পভাব িবসার কের থােক তাহেল েসিট হেচ েযৌন লালসা৷ সারা শরীেরর মেধয েকবলমাত লজাসানিটই তার কােছ
আকষরনীয় এবং েসিটরই েস ঘাণ িনেত ও তােকই চাটেত থােক৷কােজই এখােন এ উপমা েদবার উেদশয হেচ একথািট সুষষভােব তুেল ধরা েয, দিনয়া পূজারী বযিক
যখন জান ও ঈমােনর বঁাধন িছেড় েফেল পবৃিতর অন লালসার কােছ আতসমপরন কের এিগেয় চলেত থােক তার অবসা েপট ও েযৌনাংগ সবরস কুকুেরর মত হওয়া ছাড় আর
েকান উপায় থােক না৷

﴾7:177﴿

َ ‫ظِلُمو‬
‫ن‬
ْ ‫سُهْم َكاُنوا َي‬
َ ‫ن َكّذُبوا ِبَآَياِتَنا َوَأْنُف‬
َ ‫ل اْلَقْوُم اّلِذي‬
ً ‫ساءَ َمَث‬
َ

(7:177) Evil is the example of the people who reject Our signs as false and perpetrate
wrong against their own selves.
(৭:১৭৭) যারা আমার আয়াতেক িমথযা বেলেছ তােদর দৃষান বড়ই খারাপ এবং তার িনেজরাই িনেজেদর পিত জুলুম চািলেয় েগেছ৷

﴾7:178﴿

َ ‫سُرو‬
‫ن‬
ِ ‫خا‬
َ ‫ك ُهُم اْل‬
َ ‫ل َفُأوَلِئ‬
ْ ‫ضِل‬
ْ ‫ن ُي‬
ْ ‫ل َفُهَو اْلُمْهَتِدي َوَم‬
ُّ ‫ن َيْهِد ا‬
ْ ‫َم‬

(7:178) He whom Allah guides, he alone is rightly guided; and he whom Allah lets go
astray - it is they who are the loser.'
(৭:১৭৮) আলাহ যােক সুপথ েদখান েস-ই সঠীক পথ েপেয় যায় এবং যােক আলাহ িনেজর পথিনদরশনা েথেক বিঞত কেরন েস-ই বযথর কিতগস
হেয় থােক৷

‫ن بَِهككا‬
َ ‫ل َيْفَقُهككو‬
َ ‫ب‬
ٌ ‫س َلُهْم ُقُلو‬
ِ ‫لْن‬
ِْ ‫ن َوا‬
ّ‫ج‬
ِ ‫ن اْل‬
َ ‫جَهّنَم َكِثيًرا ِم‬
َ ‫َوَلَقدْ َذَرْأَنا ِل‬
َ ‫ن ِبَهككا ُأوَلِئ‬
‫ك‬
َ ‫س كَمُعو‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫ن‬
ٌ ‫ن ِبَهككا َوَلُهككْم َآَذا‬
َ ‫صككُرو‬
ِ ‫ل ُيْب‬
َ ‫ن‬
ٌ ‫عُيكك‬
ْ ‫َوَلُهككْم َأ‬
﴾7:179﴿ ‫ن‬
َ ‫ك ُهُم اْلَغاِفُلو‬
َ ‫ل ُأوَلِئ‬
ّ‫ض‬
َ ‫ل ُهْم َأ‬
ْ ‫لَْنَعاِم َب‬
ْ ‫َكا‬
(7:179) And certainly We have created for Hell many of the jinn and mankind; *140 they
have hearts with which they fail to understand; and they have eyes with which they fail
to see; and they have cars with which they fail to hear. They are like cattle - indeed, even
more astray. Such are utterly heedless.
*140. This does not mean that God has created some people for the specific purpose of fuelling
Hell. What it does mean is that even though God has bestowed upon men faculties of
observation, hearing and reasoning, some people do not use them properly. Thus, because of
their own failings, they end up in Hell.
The words employed to give expression to the idea are ones which reflect deep grief and
sorrow. This can perhaps be grasped by the occasional outbursts of sorrow by human beings. If
a mother is struck by the sudden death of her sons in a war, she is prone to exclaim: 'I had
brought up my sons that they might serve as cannon fodder!' Her exclamatory, utterance does
not mean that that was the real purpose of the upbringing. What she intends to convey by such
an utterance is a strong condemnation of those criminals because of whom all her painful
efforts to bring up her sons have gone to waste.
(৭:১৭৯) আর এিট একিট অকাটয সতয েয, বহ িজন ও মানুষ এমন আেছ যােদরেক আিম জাহানােমর জনযই সৃিষ কেরিছ৷ ১৪০ তােদর হদয় আেছ
িকন তা িদেয় তারা উপলিব কের না৷ তােদর েচাখ আেছ িকন তা িদেয় তারা েদেখ না৷ তােদর কান আেছ িকন তা িদেয় তারা েশােন না৷তারা পশর
মত বরং তােদর চাইেতও অধম৷ তারা চরম গাফলিতর মেধয হািরেয় েগেছ৷
১৪০. এর অথর এটা নয় েয, আিম তােদরেক জাহানােম িনেকপ করার জনযই সৃিষ কেরিছলাম এবং তােদরেক সৃিষ করার সময় এ সংকল কেরিছলাম েয, তােদরেক
জাহানােমর ইনেন পিরণত করেবা৷ এবং এর সিঠক অথর হেচ, আিম েতা তােদরেক হদয়, মিসষ, কান, েচাখ সবিকছুসহ সৃিষ কেরিছলাম৷ িকন এ েবকুফরা এগেলােক
যথাযথভােব বযবাহার কেরিন এবং িনেজেদর অসৎ কােজর বেদৌলেত েশষ পযরন তারা জাহানােমর ইনেন পিরণত হেয়েছ৷ চরম দঃখ পকাশ ও আেকপ করার জনয মানুেষর
ভাষায় েয ধরেনর বাকরীিতর পচলন রেয়েছ এখােনও একই ধরেনর বাকয রীিতর আশয় েনয়া হেয়েছ৷ উদাহরণ সরপ বলা যায়, েকান মােয়র কেয়ক জন েজায়ান েছেল
যুেদ মারা েগেল েস েলাকেদর বলেত থােক, আিম তােদরেক যুেদর ময়দােন জীবন দান করার জনযই বুিঝ খাইেয় পিরেয় বড় কেরিছলাম৷ এ বােকয মােয়র বকেবযর উেদশয
এ নয় েয, সতযই েস তার সনানেদরেক এ উেদেশয লালন পালন কেরিছল বরং এ ধরেণর আেকেপর সুের েস আসেল বলেত চায়, আিম িনেজর সনানেদরেক বড়ই পিরশম
কের িনেজর শরীেরর রক পািন কের বড় কের তুেলিছলাম৷িকন আলাহ িবপযরয় সৃিষকারী যুদবাজেদরেক শািস িদন৷ কারণ তােদর জনযই আমার পিরশম ও তযােগর ফসল
এভােব মািট হেয় েগেলা৷

‫س كَماِئِه‬
ْ ‫ن ِفككي َأ‬
َ ‫حُدو‬
ِ ‫ن ُيْل‬
َ ‫عوُه ِبَها َوَذُروا اّلِذي‬
ُ ‫سَنى َفاْد‬
ْ‫ح‬
ُ ‫سَماُء اْل‬
ْ‫ل‬
َْ ‫ل ا‬
ِّ ‫َو‬
﴾7:180﴿ ‫ن‬
َ ‫ن َما َكاُنوا َيْعَمُلو‬
َ ‫جَزْو‬
ْ ‫سُي‬
َ

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

(7:180) Allah has the most excellent names. *141 So call on Him by His names and shun
those who distort them. They shall soon be requited for their deeds. *142
*141. Here the present discourse is nearing its end. Before concluding, people are warned in a
style which combines admonition with censure against some basic wrongs. People are here
being warned particularly against denial combined with mockery which they, had adopted
towards the teachings of the Prophet (peace be on him).
*142. The name of a thing reflects how it is conceptualized. Hence, inappropriate concepts are
reflected in inappropriate names, and vice versa. Moreover, the attitude a man adopts towards
different things is also based on the concepts he entertains of those things. If a concept about a
thing is erroneous, so will be man's relationship with it. On the other hand. a right concept
about a thing will lead to establishing, the right relationship with it. In the same way, as this
applies to relationships with worldly objects, so it applies to relationships with God. If a man is
mistaken about God - be it about His person or attributes - he will choose false words for God.
And the falsity of concepts about God affects man's whole ethical attitude. This is
understandable since man's whole ethical attitude is directly related to man's concept of God
and God's relationship with the universe and man. It is for this reason that the Qur'an asks man
to shun profanity in naming God. Only the most beautiful names befit God, and hence man
should invoke Him by them. Any profanity in this respect will lead to evil consequences.
The 'most excellent names' used of God express His greatness and paramountcy, holiness,
purity, and the perfection and absoluteness of all His attributes. The opposite trend has been
termed ilhad in this verse. The word ilhad literally means 'to veer away from the straight
direction'. The word is used, for instance, when an arrow misses the mark and strikes
elsewhere. (See Raghib al-Isfahani, al-Mufradat, q.v. ilhad - Ed.) The commitment of ilhad in
naming God mentioned in the verse consists of choosing names which are below His majestic
dignity and which are inconsistent with the reverence due to Him; names which ascribe evil or
defect to God, or reflect false notions about Him. Equally blasphemous is the act of calling
some creature by a name which befits God alone, The Qur'anic exhortation in the above verse
to 'shun those who distort God's names' implies that if misguided people fail to see reason, the
righteous should not engross themselves in unnecessary argumentation with them. For such
men will themselves suffer dire consequences.
(৭:১৮০) ভাল নামগেলা ১৪১ আলাহর জনয িনধরািরত৷ সুতরাং ভাল নােমই তঁােক ডােকা এবং তঁার নাম রাখার বযাপাের যারা সতয েথেক িবচুযত হেয়
যায় তােদরেক বজরন কর৷ তারা যা িকছু কের এেসেছ ৷ তার ফল অবিশয পােব৷ ১৪২
১৪১. এখন ভাষণ েশষ পযরােয় চেল এেসেছ৷তাই উপসংহাের উপেদশ ও িতরষার িমিশত পদিতেত েলাকেদরেক তােদর কেয়কিট পধান পধান েগামরাহীর বযপাের সতকর
কের েদয়া হেচ৷ এই সংেগ নবীর দাওয়ােতর েমাকািবলায় তারা েয অসীকার, পতযাখযান ও িবদপাতক দৃিষভঙী অবলমন কেরিছল তার ভুল বুিঝেয় িদেয় তার অশভ
পিরণাম সমেকরও তােদরেক সাবধান কের েদয়া হেচ ।

১৪২. মানুেষর মেন িবিভন িজিনেসর েয ধারণা থােক এবং িবিভন িজিনস সমেকর মানুষ েযসব কলনা কের থােক তারই িভিতেত িনেজর ভাষায় েস তােদর নাম রােখ৷ধারণা
ও কলনায় গলদ থাকেল তা নােমর মেধযই ফুেট উেঠ৷আবার নােমর ভািন ধারণা ও কলনার ভািনর কথাই পকাশ কের৷তারপর িবিভন িজিনস সমেকর মানুেষর মেন েয
ধারণা থােক তারই িভিতেত তার সােথ তার সমকরও গেড় উেঠ এবং েসই িহেসেব তার সােথ েস বযবহারও কের৷ ধরণা ও কলনার তিট সমকর ও বযবহােরর তিটর আকাের
আতপকাশ কের৷ আবার ধারনা ও কলনা িনভুরল হেল পারষিরক সমকরও িনভুরল ও সিঠক রপ েনয় ৷ এ কথা দিনয়ার অনযানয সমস িজিনেসর বযাপাের েযমন সতয েতমিন
আলাহর বযাপােরও সতয৷ মানুষ আলাহর নাম (তঁার সতা সমিকরত েহাক বা গণবাচক নাম েহাক)িসর করার বযাপাের েয ভুল কের থােক তা হয় আসেল আলাহর সতা ও
গণাবলী সমিকরত তার আকীদা িবশােসর ফলশিত৷ তারপর আলাহ সমেকর িনেজর ধারণা ও আকীদার মেধয মানুষ যতটুকু ও েয ধরেণর ভুল কের িঠক ততটুকু ও েসই
ধরেণর ভুল তার িনেজর জীবেনর সমগ ৈনিতক দৃিষভংগী ও কমরনীিত গেড় েতালার বযপােরও সংঘিটত হেয় যায়৷কারণ মানুষ আলাহর বযপাের এবং আলাহর সােথ িনেজর ও
িবশ জাহােনর সমেকরর বযপাের েয ধারণা গেড় েতােল পুেরাপুির তারই িভিতেত তার ৈনিতক দৃিষভঙী গেড় উেঠ৷ তাই বলা হেয়েছ, আলাহর নাম রাখার বযাপাের ভুল করা
েথেক দূের থােকা৷ ভাল নামই আলাহর উপেযাগী এবং তার সাহােযযই তঁােক সরণ করা উিচত৷ তার নাম িঠক করার বযাপাের 'ইলহাদ' তথা িবেদাপাতক দৃিষভংগী মারাতক
পিরণিত েডেক আনেব৷
"ভাল ভাল নাম" বলেত এমন সব নাম বুঝায় যার মােধযেম আলাহর েশষত ও মহত, তঁার পাক-পবততা ও তঁার পূণরাঙ গণাবলীর পকাশ ঘেট৷ কুরআেন উেলিখত 'ইলহাদ'
শেবর অথর হেচ, মধযবতরী সান েথেক সের যাওয়া এবং েসাজা সরল িদক েথেক িবপথগামী হেয় যাওয়া৷তীর যখন েসাজা িনশানায় না লােগ অনয েকান িদেক লােগ তখন
আরবীেত বলা হয় (‫)الحد السهم الهدف‬

﴾7:181﴿

َ ‫ق َوِبِه َيْعِدُلو‬
‫ن‬
ّ‫ح‬
َ ‫ن ِباْل‬
َ ‫خَلْقَنا ُأّمٌة َيْهُدو‬
َ ‫ن‬
ْ ‫َوِمّم‬

(7:181) And of those whom We have created there is a party who guide men through the
truth and act justly according to it.
(৭:১৮১) আমার সৃিষর মেধয একিট দল এমনও আেছ েয, যথাথর সতয অনুযায়ী পথিনেদরশ েদয় এবং সতয অনুযায়ী িবচার কের৷

﴾7:182﴿

َ ‫ل َيْعَلُمو‬
‫ن‬
َ ‫ث‬
ُ ‫حْي‬
َ ‫ن‬
ْ ‫جُهْم ِم‬
ُ ‫سَتْدِر‬
ْ ‫سَن‬
َ ‫ن َكّذُبوا ِبَآَياِتَنا‬
َ ‫َواّلِذي‬

(7:182) As for those who reject Our signs as false, We shall lead them, step by step, to
their ruin without their even perceiving it.
(৭:১৮২) আর যারা আমার আয়াতসমূহেক িমথযা বেলেছ তােদরেক আিম এমন পদিতেত পযরায়কেম ধংেসর িদেক িনেয় যােবা েয, তারা জানেতও
পারেব না৷

﴾7:183﴿

ٌ ‫ن َكْيِدي َمِتي‬
‫ن‬
ّ ‫َوُأْمِلي َلُهْم ِإ‬

(7:183) And (for this purpose) I will grant them respite. My design is incontrovertible.
(৭:১৮৩) আিম তােদরেক িঢল িদিচ৷ আমার েকৌশল অবযথর৷

﴾7:184﴿

ٌ‫ل َنِذيٌر ُمِبين‬
ّ ‫ن ُهَو ِإ‬
ْ ‫جّنٍة ِإ‬
ِ ‫ن‬
ْ ‫حِبِهْم ِم‬
ِ ‫صا‬
َ ‫َأَوَلْم َيَتَفّكُروا َما ِب‬

(7:184) Have they not pondered that their companion [i.e. the Prophet Muhammad] is
not afflicted with insanity? He is only a plain warner.
(৭:১৮৪) তারা িক কখেনা িচনা কের না, তােদর সাথীর ওপর উনাদনার েকান পভাব েনই? েস েতা একজন সতকরকারী মাত, (অশভ পিরণিতর
উদব হবার আেগই) সুষষভােব সতকর কের িদিচ৷

ْ‫لك ِمكن‬
ُّ ‫خَلكقَ ا‬
َ ‫ض َوَمككا‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫ت َوا‬
ِ ‫سكَمَوا‬
ّ ‫ت ال‬
ِ ‫ظكُروا ِفككي َمَلُكككو‬
ُ ‫َأَوَلْم َيْن‬
‫ث َبْع كَدُه‬
ٍ ‫حكِدي‬
َ ‫ي‬
ّ ‫جُلُه كْم َفِبكَأ‬
َ ‫ب َأ‬
َ ‫ن َق كِد اْقَت كَر‬
َ ‫ن َيُكككو‬
ْ ‫سككى َأ‬
َ‫ع‬
َ ‫ن‬
ْ ‫يٍء َوَأ‬
ْ ‫شك‬
َ

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

﴾7:185﴿

َ ‫ُيْؤِمُنو‬
‫ن‬

(7:185) Have they not observed the kingdom of the heavens and the earth, and all that
Allah has created *143 and that their term of life might have drawn near *144 After this
warning from the Prophet, what will it be that will make them believe?
*143. The word 'companion' here refers to the Prophet (peace be on him) who was born,
brought up, grew into youth, in short, spent his whole life including his old age in their midst.
Before the advent of his prophethood, Muhammad (peace be on him) was known to all the
Quraysh as good natured and of sound mind. However, as he started calling people to accept
the Message of God, they immediately dubbed him insane. Now it is obvious that they were not
attributing insanity to him as regards his pre-prophetic life, for they had nothing evil to say
about that period of his life. The charge of insanity, therefore, was levelled against the Message
he began to preach when he was designated a Prophet.
The Qur'an, therefore, asks them to give serious thought to the teachings of the Prophet (peace
be on him) and to see if there is anything that is inconsistent with sanity, or is meaningless and
irrational. Had people reflected on the order of the universe, or carefully considered even one
single creation of God, they would have been convinced of the truth of the teachings of the
Prophet (peace be on him). They would have realized that whatever he said to refute
polytheism, or to establish God's unity or the accountability of man in the Hereafter, or about
the necessity of man's surrender to God, was corroborated by the entire order of the universe
and every single atom of God's creation.
*144. The unbelievers, feeble-minded as they are, fail to understand that no one knows when he
will die. For death overtakes man totally unawares. This being the case, what will be the end of
those who waste the time at their disposal until death overtakes them and fail to find the
direction to their salvation?
(৭:১৮৫) তারা িক কখেনা আকাশ ও পৃিথবীর বযবসাপনা সমেকর িচনা কেরিন এবং আলাহর সৃষ েকান িজিনেসর িদেক েচাখ েমেল তাকায়িন? ১৪৩
আর তারা িক এটাও েভেব েদেখিন েয, সমবত তােদর জীবেনর অবকােশকাল পূণর হবার সময় ঘিনেয় এেসেছ? ১৪৪
১৪৩. সাথী বলেত মুহামাদ সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালামেক বুঝােনা হেয়েছ৷িতিন তােদর মেধযই জনলাভ কেরন৷তােদর মেধয বসবাস কেরন৷ৈশশব েথেক েযৌবন এবং
েযৌবন েথেক বাধরেকয পদাপরণ কেরন৷নবুওয়াত লােভর পূেবর সমগ জািত তঁােক একজন অতযন-শান-িশষ-ভারসামযপূণর সভাব পকৃিত ও সুস- মন-মগজধারী মানুষ বেল
জানেতা৷ নবুওয়াত লােভর পর েয-ই িতিন মানুেষর কােছ আলাহর দাওয়াত েপঁৌছােত শর করেলন, অমিন তােক পাগল বলা আরম হেয় েগল৷ একথা সুসষ,নবী হবার
আেগ িতিন েযসব কথা বলেতন েসগেলা জেনয তঁােক পাগল বলা হয়িন বরং নবী হবার পর িতিন েযসব কথা পচার করেত থােকন েসগেলার জেনয তঁােক পাগল বলা হেত
থােক৷ তাই এখােন বলা হেচ, তারা িক কখেনা েভেব েদেখেছ, েয কথা গেলা িতিন বলেছন তার মেধয েকানিট পাগলািমর কথা? েকান কথািট অথরহীন ,িভিতহীন ও
অেযৌিকক? যিদ তারা আসমান ও যমীেনর বযবসাপনা িনেয় িচনা করেতা অথবা আলাহর ৈতরী েয েকান একিট িজিনসেক গভীর দৃিষেত িবেশষণ করেতা, তাহেল তারা
িনেজরাই বুঝেত পারেতা েয, িশরেকর মতবাদ খণন , তাওহীেদর পমাণ ,রেবর বেনগীর দাওয়াত এবং মানুেষর দািয়ত পালন ও জবাবিদিহ সমেকর তােদর ভাই তােদরেক
যা িকছু বুঝােচন এই সমগ িবশ বযবসা ও আলাহর সৃিষেলােকর পিতিট অনুকিণকা তারই সতযতার সাক িদেয় যােচ৷

১৪৪. অথরাৎ এ িনেবরাধরা এতটুকুও িচনা কের না েয, মৃতুযর সময় কােরার জানা েনই৷ েকউ জােন না কার মৃতুয কখন এেস পড়েব৷ তারপর যখন কােররা মৃতুযর সময় এেস
যােব এবং তার কমরনীিতর সংেশাধন করার জেনয ইহকালীন জীবনকােলর েয অবকাশটুকু েস েপেয়িছল তােক যিদ েস েগামরাহী ও অসৎকােজ নষ কের িদেয় তােক তাহেল
তার পিরণাম িক হেব?

﴾7:186﴿

َ ‫طْغَياِنِهْم َيْعَمُهو‬
‫ن‬
ُ ‫ي َلُه َوَيَذُرُهْم ِفي‬
َ ‫ل َهاِد‬
َ ‫ل َف‬
ُّ ‫ل ا‬
ِ ‫ضِل‬
ْ ‫ن ُي‬
ْ ‫َم‬

(7:186) For those whom Allah lets go astray, there is no guide; and He will leave them in
their transgression to stumble blindly.
(৭:১৮৬) তাহেল নবীর এ সতকরীকরেণর পর আর এমন িক কথা থাকেত পাের যার পিত তারা ঈমান আনেব?আলাহ যােক পথিনদরশনা েথেক বিঞত
কেরন তার জেনয আর েকান পথ িনেদরশক েনই৷ আর আলাহ তােদরেক তােদর অবাধযতার মেধয উদভােনর মত ঘুের েবড়াবার জেনয েছেড় েদন৷

َ‫عْنكَد َرّبككي ل‬
ِ ‫عْلُمَهككا‬
ِ ‫ل ِإّنَمككا‬
ْ ‫سككاَها ُقك‬
َ ‫ن ُمْر‬
َ ‫عِة َأّيككا‬
َ ‫سككا‬
ّ ‫ن ال‬
ِ‫ع‬
َ ‫ك‬
َ ‫سَأُلوَن‬
ْ ‫َي‬
ّ ‫ض لَ َتكْأِتيُكْم ِإ‬
‫ل‬
ِ ‫لْر‬
َْ ‫ت َوا‬
ِ ‫سكَمَوا‬
ّ ‫ت ِفككي ال‬
ْ ‫ل ُهكَو َثُقَلك‬
ّ ‫جّليَهككا ِلَوْقِتَهككا ِإ‬
َ ‫ُي‬
َ‫ن َأْكَث كر‬
ّ ‫ل ك َوَلِك ك‬
ِّ ‫عْنَد ا‬
ِ ‫عْلُمَها‬
ِ ‫ل ِإّنَما‬
ْ ‫عْنَها ُق‬
َ ‫ي‬
ّ ‫حِف‬
َ ‫ك‬
َ ‫ك َكَأّن‬
َ ‫سَأُلوَن‬
ْ ‫َبْغَتًة َي‬
﴾7:187﴿ ‫ن‬
َ ‫ل َيْعَلُمو‬
َ ‫س‬
ِ ‫الّنا‬
(7:187) They ask you concerning the Hour, when will its coming be? Say: 'The
knowledge of it is with my Lord alone: none but He will disclose it at its time. That will
weigh heavily on the heavens and the earth; and it shall not come to you other than all of
a sudden.' They ask you - as if you are eagerly inquisitive about it - concerning it. Say to
them: 'The knowledge of it is with none except Allah. But most people are unaware of
this reality.'
(৭:১৮৭) তারা েতামােক িজেজস করেছ, িকয়ামত কেব ও কখন হেব? বেল দাও, একমাত আমার রবই এর জান রােখন৷ সিঠক সমেয় িতিনই তা
পকাশ করেবন৷ আকাশ ও পৃিথবীেত তা হেব ভয়ংকর কিঠন সময়৷ সহসাই তা েতামােদর ওপর এেস পড়েব৷ তারা েতামার কােছ এ বযাপাের এমনভােব
িজেজস করেছ েযন তুিম তার সনােন ঘুের েবড়াচ? বেল দাও, একমাত আলাহরই এর জান রােখন৷ িকন অিধকাংশ েলাক এ সতযিট জােন না৷

‫عَلكُم‬
ْ ‫ت َأ‬
ُ ‫لك َوَلكْو ُكْنك‬
ُّ ‫شكاَء ا‬
َ ‫ل َمكا‬
ّ ‫ضكّرا ِإ‬
َ ‫ل‬
َ ‫سي َنْفًعا َو‬
ِ ‫ك ِلَنْف‬
ُ ‫ل َأْمِل‬
َ ‫ل‬
ْ ‫ُق‬
‫ل َنكِذيٌر‬
ّ ‫ن َأَنكا ِإ‬
ْ ‫سكوُء ِإ‬
ّ ‫ي ال‬
َ ‫سكِن‬
ّ ‫خْيكِر َوَمكا َم‬
َ ‫ن اْل‬
َ ‫ت ِمك‬
ُ ‫سكَتْكَثْر‬
ْ‫ل‬
َ ‫ب‬
َ ‫اْلَغْيك‬
﴾7:188﴿ ‫ن‬
َ ‫شيٌر ِلَقْوٍم ُيْؤِمُنو‬
ِ ‫َوَب‬
(7:188) Tell them [O Muhammad]: 'I have no power to benefit or harm myself except as
Allah may please. And had I knowledge of the unseen, I should have amassed all kinds
of good, and no evil would have ever touched me. *145 I am merely a warner and the
herald of glad tidings to those who have faith.'
*145. The time of the advent of the Last Day is known to God alone Who knows the Unseen
which, in fact, is not known even to the Prophet (peace be on him). Being human, he is not

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

aware what the morrow has in store for him and his family. Had his knowledge encompassed
everything - even things that lie beyond the ken of sense-perception and events that lie hidden
in the future - he would have accumulated immense benefit and would have been able to avoid
a great deal of loss owing to such foreknowledge. That being the case, it is sheer naivety to ask
the Prophet about the actual time for the advent of the Last Day.
(৭:১৮৮) েহ মুহামাদ ! তােদরেক বেলা,িনেজর জনয লাভ -কিতর েকান ইখিতয়ার আমার েনই৷ একমাত আলাহই যা িকছু চান তাই হয়৷ আর যিদ
আিম গােয়েবর খবর জানতাম, তাহেল িনেজর জেনয অেনক ফায়দা হািসল করেত পারতাম এবং কখেনা আমার েকান কিত হেতা না৷ ১৪৫ আিম েতা
যারা আমার কথা েমেন েনয় তােদর জনয িনছক একজন সতকরকারী ও সুসংবাদদাতা মাত৷
১৪৫. এর অথর হেচ, িকয়ামেতর সিঠক তািরখ একমাত েস-ই বলেত পাের, েয গােয়েবর জান রােখ, আর আমার অবসা এমন েয, আিম আগামীকাল আমার ও আমার
পিরববারেগরর িক অবসা হেব তাও বলেত পাির না৷ েতামরা িনেজরাই বুঝেত পােরা, যিদ আিম এ জােনর অিধকারী হতাম তাহেল পূবরােহ অবগত হেয় বহ কিতর হাত েথেক
আিম েবঁেচ েযতাম এবং িনছক আেগভােগ জানেত পারার কারেণ িনেজর বহ সােথরাদার করা আমার পেক সহজতর হেতা৷ এ অবসা েদখার ও জানার পরও েতামরা আমােক
িজেজস করেছা- িকয়ামত কেব হেব? এটা েতামােদর কত বড় অজতার পিরচায়ক৷

‫ن ِإَلْيَهككا‬
َ ‫سكُك‬
ْ ‫جَهككا ِلَي‬
َ ‫جَعكلَ ِمْنَهككا َزْو‬
َ ‫حَدٍة َو‬
ِ ‫س َوا‬
ٍ ‫ن َنْف‬
ْ ‫خَلَقُكْم ِم‬
َ ‫ُهَو اّلِذي‬
‫لك‬
َّ ‫عكَوا ا‬
َ ‫ت ِبكِه َفَلّمكا َأْثَقَلكتْ َد‬
ْ ‫خِفيًفكا َفَمكّر‬
َ ‫ل‬
ً ‫حْم‬
َ ‫ت‬
ْ ‫حَمَلك‬
َ ‫شكاَها‬
ّ ‫َفَلّما َتَغ‬
﴾7:189﴿ ‫ن‬
َ ‫شاِكِري‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ن ِم‬
ّ ‫حا َلَنُكوَن‬
ً ‫صاِل‬
َ ‫ن َآَتْيَتَنا‬
ْ ‫َرّبُهَما َلِئ‬
(7:189) It is He - Allah -Who created you from a single being, and out of it He made its
mate, that he may find comfort in her. And when he covers her, she bears a light burden
and goes about with it. Then, when she grows heavy, they pray to their Lord: 'If You
bestow upon us a healthy child, we will surely give thanks.'
(৭:১৮৯) আলাহই েতামােদর সৃিষ কেরেছন একিট মাত পাণ েথেক এবং তারই পজািত েথেক তার জুিড় বািনেয়েছন, যােত কের তার কােছ পশািন
লাভ করেত পাের ৷তারপর যখন পুরষ নারীেক েঢেক েফেল তখন েস হালকা গভরধারণ কের৷ তােক বহন কের েস চলােফরা কের৷ গভর যখন ভাির হেয়
যায় তখন তারা দজেন িমেল এক সােথ তােদর রব আলাহর কােছা েদায়া কেরঃ যিদ তুিম আমােদর একিট ভাল সনান দাও তাহেল আমরা েতামার
েশাকরগজারী করেবা ৷

‫عّمككا‬
َ ‫لك‬
ُّ ‫شكَرَكاَء ِفيَمككا َآَتاُهَمككا َفَتَعككاَلى ا‬
ُ ‫ل َلكُه‬
َ ‫جَع‬
َ ‫حا‬
ً ‫صاِل‬
َ ‫َفَلّما َآَتاُهَما‬
﴾7:190﴿ ‫ن‬
َ ‫شِرُكو‬
ْ ‫ُي‬
(7:190) But when He vouchsafes them a healthy child, they attribute to Him partners
regarding what Allah had bestowed upon them. Subliminally exalted is Allah above that
which they associate with Him. *146
*146. The present and succeeding verses (190-8) seek to refute polytheism. These verses are
devoted to highlighting the implications of the postulate which even the polytheists affirmed that it is God Who originally created the human species. They also acknowledge that every
human being owes his existence to God. God also holds absolute power over the entire process

leading to man's birth, right from the fertilization of the ovurn in the uterus to its onward
development in the form of a living being, then investing it with numerous faculties and
ensuring its birth as a sound, healthy baby. No one has the power to prevent God, if He so
willed, from causing a wornan to give birth to an animal or to odd creature, or to a physically or
mentally handicapped baby. This fact is also equally acknowledged by monotheists and
polytheists. It is for this reason that in the final stage of pregnancy, people are inclined to turn
to God and pray for the birth of a sound and healthy baby.
It is, however, the very, height of man's ignorance and folly that after a sound and healthy baby
has been born as a result of God's will, man makes offerings at the altars of false gods,
goddesses, or saints. Occasionally the names given to the child (e.g., 'abd al-Rasul, 'abd
al-'Uzza, 'abd Shams, etc.) also indicate that man feels grateful to others than God and
regardsthe child as a gift either of sorne Prophet, some noted Companion of the Prophet (peace
be on him), or some other noted personality such as his spiritual mentor rather than a gift from
God.
There has been some misunderstanding with regard to the point emphasized here. This
misunderstanding has been further reinforced by traditions of doubtful authenticity. The Qur'an
mentions that human being's are created from a single person, and obviously here that person
means Adam (peace be on him). Now this reference to one person is soon followed by
reference to his spouse, and that both prayed to God for the birth of a sound and healthy baby.
And when that prayer was accepted, the couple are mentioned as having associated others with
God in the granting of His favour.
The misunderstanding consists in considering this couple, who fell prey to polytheism, to be
Adam and Eve. People resorted to unauthentic traditions to explain the above verse and the
story which thus gained acceptance was the following. It was claimed that Eve suffered several
mishaps since her offspring would die after birth. Satan seized this opportunity to mislead her
into naming her baby Abd al-Harith (the slave of Satan). (See the comments of Ibn Kathir on
verse 190. Cf. Ahmad b. Hanbal, Musnad, vol. 5, p. 11 - Ed.) What is most shocking is that
some of these unsubstantiated traditions have been ascribed to the Prophet (peace be on him).
The fact, however, is that the above account does not have even an iota of truth. Nor is it, in any
way, corroborated by the Qur'an itself. The only point brought home by the Qur'an is that it is
God alone, to the total exclusion of every one else, Who brought the first human couple into
being. And again it is God alone Who causes the birth of each baby born out of the intercourse
between a man and a woman. The Qur'an also points out that the of this truth is innate in human
nature which is evident from the fact that in states of distress and crisis man turns prayerfully to
God alone. Ironically, however, after God blesses those prayers with acceptance, a number of
people associate others with God in His divinity. The fact is that the present verses do not refer
to any particular man and woman. The allusion is in fact to every man and woman enmeshed in
polytheism.

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

Here another point deserves attention. These verses condemn the Arabian polytheists on
account of the fact that when God granted them sound children in response to their prayers they
associated others with God in offering thanks. But what is the situation of many Muslims of
today who strongly believe in the unity of God? Their situation seems even worse. It is not
uncommon for them to ask others than God to grant children. They, make vows during
pregnancy to others than God, and make offerings to others than God after child-birth. Yet they
are satisfied that they have a full guarantee of Paradise since they are believers in the One True
God whereas the Arabian polytheists would inevitably be consigned to Hell. It is only the
doctrinal errors of the pre-Islamic Arabian polytheists which may be condemned. The doctrinal
errors of Muslims are beyond all criticism and censure.
(৭:১৯০) িকন যখন আলাহ তােদরেক একিট সুস -িনখুঁত সনান দান কেরন,তখন তারা তঁার এ দান ও অনুগেহ অনযেদরেক তঁার সােথ শরীক করেত
থােক৷ তারা েযসব মুশিরকী কথাবাতরা বেল আলাহ তার অেনক উেধর৷ ১৪৬
১৪৬. এখােন মুশিরকেদর জােহিলয়াত পসূত েগামরাহীর সমােলাচনা করা হেয়েছ৷ এ ভাষণিটর মূল বকবয হেচ, মহান সবরশিকমান আলাহই সবরপথম মানব জািতেক সৃিষ
কেরন৷ মুশিরকরা ও একথা অসীকার কের না৷ তারপর পরবিতর কােলর পেতযকিট মানুষেকও িতিনই অিসত দান কেরন৷ আর একথািটও মুশিরকরা জােন৷ নারী গেভর শকেক
সংরকণ ,তারপর এ সামানয হালকা গভরিট লালন কের তােক একিট জীবন মানব িশশেত পিরণত করা, এরপর েসই িশশিটর মেধয িবিভন ধরেন শিক ও েযাগযতা সৃিষ কের
তােক একিট সুস ও পিরপূণর অবয়েবর অিধকারী মানুষ িহেসেব দিনয়ার বুেক ভুিমষ করা -এসব িকছু আলাহর ইচাধীন৷ মহান ও সবরশিকমান আলাহ যিদ নারীর গেভর সাপ,
বাদর বা অনয েকান অদুত েদহাবয়ব িবিশষ জীব সৃিষ কের েদন অথবা মােয়র গেভরই িশশেক অন , বিধর েবাবা , খঞ কের েদন বা তার শারীিরক ,মানিসক ও আিতক
শিকর মেধয েকান তিট জিনেয় েদন ,তাহেল আলাহর গড়া এ আকৃিতেক পিরবতরন করার কমতা কােরার েনই৷ একক আলাহর অিসত িবশাসীেদর নযায় মুশিরকরাও এ
সতযিট সমেকর সমানভােব অবগত৷ তাই েদখা যায়, গভরবসায়, সুস,সবল ও িনখুঁত অবয়বধারী িশশ ভুিমষ হবার বযাপাের আলাহর ওপরই পূণর ভারসা করা হয়৷ িকন েসই
আশা পূণর হেয় যিদ চঁােদর মত ফুটফূেট সুনর িশশ ভূিমষ হয়, তাহেলও জােহলী কমরকাণ নবতর রপ িনেয় আতাপকাশ কের৷ কৃতজতা পকােশর উেদেশয েকান েদবী
অবতার অলী ও পীেরর নােম নাজরানা ও িশনী িনেবেদন করা হয় এবং িশশেক এমন সব নােম অিভিহত করা হয় েযন মেন হয় েস আলাহর নয়, বরং অনয কােরার
অনুগেহর ফল৷ েযমন তার নামকরণ করা হয় েহাসাইন বখশ(েহাসাইেনর দান),পীর বখশ (পীেরর দান), আবদর রসূল (রসূেলর েগালাম) আবদল উযযা(উযযা েদবতার
দাস) ,আবেদ শামস (সূযর দাস) ইতযািদ ইতযািদ৷
সূরার এ অংশিট অনুধাবন করার বযাপাের আেরা একিট বড় ধেরেনর ভুল হেয় থােক৷ িবিভন দবরল হাদীেসর বণরান এ ভুেলর িভতেক আেরা শিকশালী কের িদেয়েছ৷ শরেত
একিট মাত পাণ েথেক মানব জািতর জেনর সূচনা হবার কথা বলা হেয়েছ৷ এ পথম মানব পাণিট হেচ হযরত আদম আলাইিহস সালাম৷ তারপর তার সােথ সােথই একিট
পুরষ ও একিট নারীর কথা বলা হেয়েছ৷ তারা পথেম সুস ও পূণরাবয়ব সমন িশশর জেনর জেনয আলাহর কােছ েদায়া কের৷ তারপর যখন িশশ ভূিমষ হয় তখন তারা
আলাহর দােনর সােথ অনযেদরেক ও শরীক কের েনয়৷ এ বণরনাভংগীর কারেণ একদল েলাক মেন কের িনেয়েছ েয, আলাহর সােথ শরীককারী এ সামী-সী , িনশয়ই হযরত
আদম হাওয়া আলাইিহস সালামই হেবন৷ মজার বযাপার এই েয, এ ভুল ধারণার সােথ আবার িকছু দবরল হাদীেসর িমশণ ঘিটেয় একিট পূণরাঙ গল রচনা করা হেয়েছ৷গলিট
এ রকম েয, হযরত হাওয়ার েছেল েমেয় পয়দা হবার পর মের েযেতা৷ অবেশেষ এক সনান জেনর পর শয়তােনর পেরাচনায় িতিন তার নাম আবদল হােরস (শয়তােনর
বানা) রাখেত উদুদ হন৷সবেচেয় মারাতক ও সবরনাশ বযাপার হেচ এই েয, এ হাদীসগেলার মেধয েথেক েকান েকানিটর সনদ েখাদ নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালাম
পযরন ও েপৌেছেয় েদয়া হেয়েছ৷ িকন মূলত এ জাতীয় সমস হাদীসই ভুল৷ কুরআেনর বকবয ও এর সমথরন কের না৷ কুরআন েকবল এতটুকুই বলেছঃ মানব জািতর েয
পথম দমিতর মাধযেম পৃিথবীেত মানব বংেশর সূচনা হেয়িছল তার সষাও িছেলন আলাহ অনয েকই নয়৷ তাই সৃিষকেমর েকউ তার সাহাযযকারী িছল না৷তারপর পেতযকিট
পুরষ ও নারীর িমলেন েয িশশ জন েনই তার সষাও েসই একই আলাহ যার সােথ কৃত অঙীকােরর ছাপ েতামােদর সবার হদেয় সংরিকত আেছ৷ তাই এ অংগীকােরর
কারেণ েতামরা আশা -িনরাশার েদালায় আেনািলত হেয় যখন েদায়া কেরা তখন েসই আলাহর কােছই েদায়া কের থােকা৷ িকন পের আশা পূণর হেয় েগেল েতামােদর মাথায়
আবার িশরেকর উদব হয় ৷এ আয়ােত মুশিরকেদর পেতযকিট পুরষ ও নারীর অবসা এখােন তুেল ধরা হেয়েছ৷
এ পসেঙ আর একিট কথাও পিনধানেযাগয৷ এসব আয়ােত আলাহ যােদর িননাবাদ কেরেছন তারা িছল আরেবর মুশিরক সমদায়৷তােদর অপরাধ িছল তারা সুস , সবল ও
পূণরবয়ব সমন সনান জেনর জেনয আলাহর কােছ েদায়া করেতা িকন সনােনর জেনর পর আলাহর এ দােন অনযেদর েক অংশীদার করেতা৷ িনসেনেহ তােদর এ অবসা
িছল অতযন খারাপ৷ িকন বতরমােন তাওহীেদর দাবীদারেদর মেধয আমরা েয িশরেকর েচহারা েদখিছল তা তার চাইেতও খারাপ৷ এ তাওহীেদর তথাকিথত দাবীদাররা সনানও
চায় আলাহেক বাদ িদেয় অনযেদর কােছ৷ গভর সঞােরর পর আলাহেক বাদ িদেয় অনযেদর নােম মানত মােন এবং সনান জেনর পর তােদরই আসানায় েযেয় নজরানা িনেবদন
কের৷এরপরও জােহলী যুেগর আরবরাই িছল েকবল মুশিরক আর এরা নািক পাকা তাওহীদবাদী!তােদর জেনয জাহানাম অবধািরত িছল আর এেদর জেনয রেয়েছ,নাজােতর
গযারািন ,তােদর েগামরাহীর কেঠার সমােলাচনা ও িননা করা হয় িকন এেদর েগামরাহীর সমােলাচনা করেল ধমরীয় েনতােদর দরবাের িবরাট অিসরতা েদখা েদয়৷ কিব
আলতাফ েহাসাইন হালী তঁার িবখযাত কাবযগন 'মুসাদাস' -এ এ অবসারই িচত এঁেকেছনঃ
------------------------------------অেনয কের মুিতর পূজা
েস হয় কােফর সেনহ নাই

অনয বানায় েখাদার পুত
েস হয় কােফর সেনহ েনই
অিগেত েয েনায়ায় মাথা
েস হয় কােফর সেনহ েনই
তারার শিক মানেল তুিম
কােফর হেব সেনহ েনই,
িকন মুিমন তারা তাই পশস এসব পথই তােদর জেনয
করক পূজা ইচা যােক অেনক েখাদার িভন িভন!
নবীেক বসাও যিদ আলাহর আসেন
ইমামেক বসাও যিদ নবীিজর সামেন
পীেরর মাজাের চাও িসনী চড়াও
শহীেদর কবের িগেয় েদায়া যিদ চাও
তবুও তাওহীেদর গােয় লােগ না আঁচড়
ঈমান অটুট থােক ইসলাম অনঢ়৷

﴾7:191﴿

َ‫خَلُقون‬
ْ ‫شْيًئا َوُهْم ُي‬
َ ‫ق‬
ُ ‫خُل‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫ن َما‬
َ ‫شِرُكو‬
ْ ‫َأُي‬

(7:191) Do they associate (with Allah in His divinity) those who can create nothing;
rather, they are themselves created?
(৭:১৯১) িক ধরেনর িনেবরাধ েলাক এরা! আলাহর শরীক গণয কের তােদরেক , যা েকান িজিনস সৃিষ কেরিন বরং িনেজরাই সৃষ৷

﴾7:192﴿

َ ‫صُرو‬
‫ن‬
ُ ‫سُهْم َيْن‬
َ ‫ل َأْنُف‬
َ ‫صًرا َو‬
ْ ‫ن َلُهْم َن‬
َ ‫طيُعو‬
ِ ‫سَت‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫َو‬

(7:192) They have no power to help others. nor can they help themselves.
(৭:১৯২) যারা তােদরেক সাহাযয করেত পাের না এবং িনেজরাও িনেজেদরেক সাহাযয করার কমতা রােখ না৷

‫عْوُتُموُهْم َأْم َأْنُتْم‬
َ ‫عَلْيُكْم َأَد‬
َ ‫سَواٌء‬
َ ‫ل َيّتِبُعوُكْم‬
َ ‫عوُهْم ِإَلى اْلُهَدى‬
ُ ‫َوِإنْ َتْد‬
﴾7:193﴿ ‫ن‬
َ ‫صامُِتو‬
َ
(7:193) And if you call them to true guidance, they will not follow you. It is all the same
for you whether you call them to true guidance or keep silent.*147
*147. As to the false gods set up by the polytheists, what is the extent of their power? Not only,
do they not have the power to guide others, they do not even have the power to follow others or
even to answer the call of their devotees.
(৭:১৯৩) যিদ েতামরা তােদরেক সতয -সরল পেথ আসার দাওয়াত দাও তাহেল তারা েতামােদর েপছেন আসেব না, েতামরা তােদরেক ডােকা বা চুপ
কের থােকা উভয় অবসায়ই ফল েতামােদর জনয সমানই থাকেব৷ ১৪৭

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

১৪৭. অথরাৎ মুশিরকেদর বািতল মাবুেদর অবসা হেচ এই েয, তােদর পেক কাউেক সিঠক পথ েদখােনা এবং িনেজেদর অনুগামী ও পূজারীেদরেক পেথর সনান েদয়া েতা
দূেরর কথা, তারা েতা েকান পথপদথরেকর অনুসরণ করারও েযাগযতা রােখ না৷ এমন িক েকান আহবানকারীর আহবােনর জবাব েদবার কমতাও তােদর েনই৷

‫جيُبوا َلُكْم‬
ِ ‫سَت‬
ْ ‫عوُهْم َفْلَي‬
ُ ‫عَباٌد َأْمَثاُلُكْم َفاْد‬
ِ ‫ل‬
ِّ ‫ن ا‬
ِ ‫ن ُدو‬
ْ ‫ن ِم‬
َ ‫عو‬
ُ ‫ن َتْد‬
َ ‫ن اّلِذي‬
ّ ‫ِإ‬
﴾7:194﴿ ‫ن‬
َ ‫صاِدِقي‬
َ ‫ن ُكْنُتْم‬
ْ ‫ِإ‬
(7:194) Those whom you invoke other than Allah are creatures like you. So invoke them
and see if they answer your call, if what you claim is true.
(৭:১৯৪) েতামরা আলাহেক বাদ িদেয় যােদরেক ডােকা তারা েতা েতামােদর মতই বানা৷ তােদর কােছ েদায়া েচেয় েদেখা, তােদর সমেকর েতামােদর
ধারণা যিদ সতয হেয় থােক, তেব তারা েতামােদর েদায়ায় সাড়া িদক৷ তােদর িক পা আেছ, যা িদেয় তারা চলেত পাের?

ٌ‫عُي كن‬
ْ ‫ن ِبَهككا َأْم َلُه كْم َأ‬
َ ‫شككو‬
ُ‫ط‬
ِ ‫ن ِبَهككا َأْم َلُه كْم َأْي كٍد َيْب‬
َ ‫شككو‬
ُ ‫ل َيْم‬
ٌ ‫جك‬
ُ ‫َأَلُه كمْ َأْر‬
‫شكَرَكاَءُكْم ُثكّم‬
ُ ‫عككوا‬
ُ ‫ل اْد‬
ِ ‫ن ِبَهككا ُقك‬
َ ‫سكَمُعو‬
ْ ‫ن َي‬
ٌ ‫ن ِبَهككا َأْم َلُهكْم َآَذا‬
َ ‫صُرو‬
ِ ‫ُيْب‬
﴾7:195﴿ ‫ن‬
ِ ‫ظُرو‬
ِ ‫ل ُتْن‬
َ ‫ن َف‬
ِ ‫ِكيُدو‬
(7:195) Have they feet on which they can walk? Have they hands with which they can
grasp? Have they eyes with which they can see? Have they ears with which they can
hear? *148 Say [O Muhammad]: 'Invoke all those to whom you ascribe a share in Allah's
divinity, then scheme against me and grant me no respite.
*148. Polytheistic religions seem to have three characteristics: (1) idols and images that are
held as objects of worship; (2) some persons and spirits that are considered deities represented
in the form of idols and images, etc.; and (3) certain beliefs which underlie their polytheistic
rites. The Qur'an denounces all these. At this place, however, the attack is directed against the
objects to which the polytheists directed their worship.
(৭:১৯৫) তােদর িক হাত আেছ যা িদেয় তারা ধরেত পাের? তােদর িক েচাখ আেছ যা সাহােযয তারা েদখেত পাের?তােদর িক কান আেছ যা িদেয়
তারা শনেত পাের? ১৪৮ েহ মুহামাদ ! এেদরেক বেলা, েতামােদর বানােনা শরীকেদরেক েডেক নাও তারপর েতামরা সবাই িমেল আমার িবরেদ চকান
কেরা এবং আমােক একদম অবকাশ িদেয়া না৷
১৪৮. এখােন একিট কথা পিরষারভােব বুেঝ িনেত হেব৷ িশরক আিশত ধমরগেলায় িতনিট িজিনস আলাদা আলাদা পাওয়া যায়, এক, েযসব মূিতর ছিব বা িনদশরনেক পূজা
করা হয় এবং েসগেলােক েকন কের সমগ পূজা কমরিট অনুিষত হয়৷ দই, েযসব বযিক, আতা বা ভাবেদবীেক আসল মাবুদ গণয করা হয়৷ এবং মুিতর ছিব ইতযািদর মাধযেম
েযগেলার পিতিনিধত করা হয়৷ িতন, এসব মুশিরকী পূজা অনুিষনািদর গভীের েযসব আকীদা িবশাস কাযরকর থােক৷ কুরআনর িবিভন পদিতেত এ িতনিট জীিনেসর ওপর
আঘাত েহেনেছ৷ তেব এখােন তার সমােলাচনার লকয হেচ পথম িজিনসিট৷ অথরাৎ মুশিরকরা েযসব মুিতরর সামেন পূজার অনুষানািদ সমন কের এবং যােদর সামেন
িনেজেদর আেবদন িনেবদন ও নজরানা েপশ কের তােদরেকই এখােন সমােলাচনার বস িহেসেব উপসাপন করা হেয়েছ৷

﴾7:196﴿

َ ‫حي‬
‫ن‬
ِ ‫صاِل‬
ّ ‫ب َوُهَو َيَتَوّلى ال‬
َ ‫ل اْلِكَتا‬
َ ‫ل اّلِذي َنّز‬
ُّ ‫ي ا‬
َ ‫ن وَِلّي‬
ّ ‫ِإ‬

(7:196) My guardian is Allah Who has revealed the Book, and it is He Who protects the

righteous. *149
*149. This is in response to the threats held out by the polytheists to the Prophet (peace he on
him). They used to tell the Prophet (peace be on him) that if he did not give up opposing their
deities and denouncing them, he would be overwhelmed by the wrath of those deities and court
utter disaster.
(৭:১৯৬) আমার সহায় ও সাহাযযকারী েসই আলাহ িযিন িকতাব নািযল কেরেছন এবং িতিন সৎ েলাকেদর সহায়তা কের থােকন৷ ১৪৯
১৪৯. মুশিরকরা নবী (সা)েক েয হমিক িদেয় আসিছল এটা হেচ তার জবাব ৷ তারা বলেতা , যিদ তুিম আমােদর এসব মাবুেদর িবেরািধতা করা েথেক িবরত না হও এবং
তােদর িবরেদ েলাকেদর িবশাস এভােব নষ কের েযেত থােকা, তাহেল তুিম তােদর গযেবর িশকার হেব এবং তারা েতামােক এেকবাের েনসানুবাদ কের েদেব৷

‫سككُهْم‬
َ ‫ل َأْنُف‬
َ ‫صككَرُكْم َو‬
ْ ‫ن َن‬
َ ‫طيُعو‬
ِ ‫سككَت‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫ن ُدوِنككِه‬
ْ ‫ن ِمكك‬
َ ‫عو‬
ُ ‫ن َتككْد‬
َ ‫َواّلككِذي‬
﴾7:197﴿ ‫ن‬
َ ‫صُرو‬
ُ ‫َيْن‬
(7:197) And those whom you invoke other than Allah, they can neither help themselves
nor you.
(৭:১৯৭) অনযিদেক েতামরা আলাহেক বাদ িদেয় যােদরেক েডেক থােকা তারা েতামােদর ও সাহাযয করেত পাের না এবং িনেজরাও িনেজেদর সাহাযয
করার কমতা রােখ না৷

َ ‫ك َوُه كْم‬
‫ل‬
َ ‫ن ِإَلْي ك‬
َ ‫ظ كُرو‬
ُ ‫سَمُعوا َوَتَراُهْم َيْن‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫عوُهْم ِإَلى اْلُهَدى‬
ُ ‫ن َتْد‬
ْ ‫َوِإ‬
﴾7:198﴿ ‫ن‬
َ ‫صُرو‬
ِ ‫ُيْب‬
(7:198) And if you were to call them to true guidance, they will not hear; and you
observe them looking at you whereas they have no power to see.'
(৭:১৯৮) বরং েতামরা যিদ তােদরেক সতয-সিঠক পেথ আসেত বেলা তাহেল তারা েতামােদর কথা শনেতও পােব না৷ বাহযত েতামরা েদখেছা, তারা
েতামােদর িদেক তািকেয় আেছ িকন আসেল তারা িকছুই েদখেছ না৷

﴾7:199﴿

َ ‫جاِهِلي‬
‫ن‬
َ ‫ن اْل‬
ِ‫ع‬
َ ‫ض‬
ْ ‫عِر‬
ْ ‫ف َوَأ‬
ِ ‫خِذ اْلَعْفَو َوْأُمْر ِباْلُعْر‬
ُ

(7:199) [O Prophet!] Show forgiveness, enjoin equity, and avoid the ignorant.
(৭:১৯৯) েহ নবী! েকামলতা ও কমার পথ অবলমন কেরা৷ সৎকােজর উপেদশ িদেত থােকা এবং মূখরেদর সােথ িবতেকর জিড়ও না৷

﴾7:200﴿

‫عِليٌم‬
َ ‫سِميٌع‬
َ ‫ل ِإّنُه‬
ِّ ‫سَتِعذْ ِبا‬
ْ ‫غ َفا‬
ٌ ‫ن َنْز‬
ِ ‫طا‬
َ ‫شْي‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ك ِم‬
َ ‫غّن‬
َ ‫َوِإّما َيْنَز‬

(7:200) And if it happens that a prompting from Satan should stir you up, seek refuge
with Allah. He is All-Hearing, All-Knowing.
(৭:২০০) যিদ কখেনা শয়তান েতামােক উেতিজত কের তাহেল আলাহর আশয় চাও৷ িতিন সবিকছু েশােনন এবং জােনন৷

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

‫ن َت كَذّكُروا َف كِإَذا ُه كْم‬
ِ ‫طا‬
َ ‫ش كْي‬
ّ ‫ن ال‬
َ ‫ف ِم ك‬
ٌ ‫طككاِئ‬
َ ‫س كُهْم‬
ّ ‫ن اّتَق كْوا ِإَذا َم‬
َ ‫ن اّل كِذي‬
ّ ‫ِإ‬
﴾7:201﴿ ‫ن‬
َ ‫صُرو‬
ِ ‫ُمْب‬
(7:201) If the God-fearing are instigated by any suggestion of Satan, they instantly
become alert, whereafter they clearly perceive the right way.
২০১) পকৃতপেক যারা মুকাকী, তােদরেক যিদ কখেনা শয়তােনর পভােব অসৎ িচনা সশরও কের যায় তাহেল তারা তখনই সতকর হেয় উেঠ তারপর
তারা িনেজেদর সিঠক কমরপদিত পিরষার েদখেত পায়৷

﴾7:202﴿

َ ‫ل ُيْقصُِرو‬
‫ن‬
َ ‫ي ُثّم‬
ّ ‫َوِإخَْواُنُهْم َيُمّدوَنُهْم ِفي اْلَغ‬

(7:202) As for their brethren [the Satans], they draw them deeper into error and do not
relax in their efforts. *150
*150. Here some important directives are addressed to the Prophet (peace be on him) regarding
how he should preach the Message of Islam and how he should guide and reform people. The
object of these directives is not merely to instruct the Prophet (peace be on him), but also to
instruct all those who would shoulder the same responsibility after the Prophet (peace be on
him) was no longer amidst them. The major directives are as follows:

(1) The most important qualities that must be cultivated by anyone who calls others to the truth
are tenderness, magnanimity, and forbearing. Such a person should also have the capacity to
tolerate the lapses of his companions and to patiently endure the excesses of his opponents. He
should also be able to keep his cool in the face of grave provocation and gracefully connive at
the offensive behaviour of others. In facing the angry words, slander, persecution and mischief
of his opponents, he should exercise the utmost self-restraint. Harshness, severity, bitterness.
and vindictive provocativeness on his part are bound to undermine his mission. The same point
seems to have been made in a Hadith in which the Prophet (peace be on him) says that he has
been commanded by his Lord: '...to say the just word whether I am angry, or pleased; to
maintain ties with nim who severs ties with me; and to give to him who denies me (my right);
and to forgive him who wrongs me.' (See the comments of Qurtubi in his Tafsir on the verse Ed.) The Prophet (peace be on him) also instructed all those whom he deputized for preaching:
'Give good news rather than arouse revulsion: make things easy rather than hard.' (Muslim,
Kitab al-Ilm, Bab fi al-amr bi al-Taysir wa Tark al-Ta'sir'- Ed.) This distinguishing feature of
the Prophet's personality has also been mentioned in the Qur'an.
It was thanks to Allah's mercy that you were gentle to them. Had you been rough, hard-hearted,
they would surely have scattered away, from you (AI 'Imran 3: 159).

(2) The second key to the success in da'wah work is to stay away from excessive theorizing and
intellectual hair-splitting. One should rather call people in clear and simple terms to those
virtues which are recognized as such by the generality of mankind and appeal to common
sense. The great advantage of this method is that the Message of Islam finds its way right to the
hearts of people at all levels of understanding. Those who then seek to oppose the Message are
soon exposed and end up antagonizing the common people. For when the common people
obserse on the one hand decent and righteous people being opposed for the simple reason that
they are inviting people to universally-known virtues, and on the other hand observe those
opponents resorting to all kinds of immoral and inhuman means, they are bound to incline to
support the standard bearers of truth and righteousness. This process goes on until a point
where the only opponents left are those whose self-interest is inextricably linked with the
prevailing unrighteous system, or those's who have been totally blinded by their bigoted
adherence to ancestral tradition or by their irrational biases.

The wisdom underlying the Prophet's method accounts for his phenomenal success and for the
speedy spread of Islam in and around Arabia within a short span of time. People flocked to
Islam in vast numbers so much so that in some lands eighty and ninety per cent of the
population embraced Islam. In fact there are even instances of a hundred per cent of the
population embracing Islam.

(3) The interest of the Islamic mission requires, on the one hand, that righteousness should be
enjoined on those who have the propensity to become righteous. On the other hand, it also
requires that those who are overly insistent in their adherence to falsehood, should be left alone,
and that their acts of provocation be ignored. Those who seek to spread Islam should confine
their efforts to persuading only those who are prepared to consider the Message of Islam in
reasonable manner. When someone becomes altogether unreasonable and quarrelsome, and
resorts to indecent methods of taunting and reviling Islam, Muslims should simply refuse to
become adversative. For all the time and effort devoted to reforming such people will be totally
wasted.

(4) The moment the proponent of the Islamic Message feels that he is being provoked by the
excesses, mischief, and uncalled-for objections and accusation, he should realize that he is
being influenced by Satan. In such a situation he should immediately seek refuge with God, and
restrain himself lest his impulsiveness damage his cause. The cause of Islam can be served only
by those who act cool-headedly. Only those steps are appropriate which have been taken after
due consideration rather than under the influence of impulse and emotion. Satan, however, is
ever on the look-out for opportunities to sabotage the efforts made in the cause of Islam. He,

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

therefore, ensures that those who are working for the Islamic cause are subjected to unjust and
mischievous attacks from their opponents. The purpose underlying this is to provoke the
workers for the cause of Islam to engage in the senseless and harmful task of mounting counterattacks against their opponents.
The appeal that Satan makes to those well-meaning, religious people is often couched in
religious phraseology and is backed up by religious argument. But the fact is that those counterattacks are undertaken merely under the impulse of man's lower self. The last two verses,
therefore, make it clear that those who are God-fearing are always very sensitive to
provocations under the impulse of Satan, and as soon as they become aware of such a
provocation, they promote the best interests of the cause of truth rather than satisfy their
vengeful feelings. As for those who are driven by egotistical impulses, they succumb to the
promptings of Satan and are eventually set on an erroneous path. They fall victim to Satan, act
virtually as his puppet, and subsequently their degradation knows no limit. They pay their
opponents back in the same coin, tit for tat.

What has been said above also has another import. It seeks to remind the God-fearing that their
ways should be perceptibly different from the ways of those who do not fear God. The Godfearing not only avoid evil, but the very idea of committing it pricks their conscience and
rankles their hearts. They have an instinctive revulsion against evil, a revulsion similar to what
a cleanliness-loving man feels at the sight of a big stain or a splash of filth on his clothes. This
feeling causes the God-fearing to remove every stain of evil. Quite contrary are those who have
no fear of God, who have no desire to stay away from evil and who are in harmony with the
ways of Satan. Such people are always given to evil thoughts and wrong-doing.
(৭:২০২) আর তােদর অথরাৎ (শয়তােনর ) ভাই-বনুরা েতা তােদরেক তােদর বঁাকা পেথই েটেন িনেয় েযেত থােক এবং তােদরেক িবভান করার
বযাপাের তারা েকান তিট কের না৷ ১৫০
১৫০. এ আয়াতগেলােত নবী (সা) েক পচার ,পথিনিদশরনা দান সংসার ও সংেশাধন েকৌশেলর কিতপয় গরত িবষয় জািনেয় েদয়া হেয়েছ৷েকবল নবী (সা) েক নয়, বরং
নবী (সা) এর সালািভিসক হেয় েযসব েলাক দিনয়াবসীেক সিঠক পথ েদখাবার দািয়ত পালন করার জেনয এিগেয় আসেব তােদরেক ও তারই মাধযেম এ একই েকৌশল
িশখােনাও এর উেদশয৷ এ িবষয়গেলােক ধারাবািহকভােব িবেশষণ করা যায়ঃ
(১)ইসলােমর আহবায়েকর জেনয েয গণগেলা সবেচেয় েবশী পেয়াজনীয় েসগেলার মেধয একিট হেচ, তােক েকামল সভােবর সিহষু ও উদার হদয় হেত হেব৷ তােক হেত
হেব িনেজর সংগী -সহেযাগীেদর জেনয েসহশীল,সাধারণ মানুেষর জেনয দয়াদ হদয় এবং িনেজর িবেরাধীেদর জেনয সিহষু ৷ িনেজর সাথীেদর দবলরতাগেলাও তােক সহয
কের িনেত হেব এবং িনেজর িবেরাধীেদর কেঠার বযবহারেকও৷ চরম উেতজনাকর অবসার মেধযও তার িনেজর আচরণ ভারসাময বজায় রাখেত হেব৷ অতযন িবরিককর ও
অপছননীয় কথাগেলাও উদার মেন এিড়েয় েযেত হেব৷িবেরাধীেদর পক েথেক যতই কড়া ভাষায় কথা বলা েহাক, যতই েদাষারপ করা ও মেন বযাথা েদয়া েহাক এবং যতই
ববরেরািচত পিতেরাধ গেড় েতালা েহাক না েকন,তােক অবিশয এসব িকছুেক উেপকার দৃিষেত েদখেত হেব৷ কেঠার পিতিকয়া বযক করা, ককরশ আচরণ করা, িতক ও কড়া
কথা বলা এবং পিতেশাধমূলক মানিসক উেতজনায় েভাগা এ কােজর জেনয িবষতুলয৷ এেত েগাটা কাজ পণ হেয় যায়৷ এ িজিনসিটেক নবী (সা) এভােব বণরনা কেরেছনঃ
আমার রব আমােক হকুম িদেয়েছন, আিম েযন েকাধ ও সনষিট উভয় অবসায়ই ইনসােফর কথা বলী, েয আমার সােথ সমকরেচদ কের তার সােথ সমকর জুিড় ,েয
আমােক আমার অিধকার েথেক বিঞত কের তােক তার অিধকার দান কির, েয আমার পিত জুলুম কের আিম তােক মাফ কের েদই৷ইসলােমর কােজ িতিন িনেজর পক
েথেক যােদরেক পাঠােতন তােদরেকও এ একই িবষয়গেলা েমেন চলার িনেদরশ িদেতন৷ িতিন বেলনঃ
----------------------------েযখােন েতামরা যােব েসখােন েতামােদর পদাপরণ েযন েলাকেদর জেনয সুসংবাদ িহেসেব েদখা েদয়, তা েযন েলাকেদর মেধয ঘৃণার সঞার না কের৷ েলাকেদর জীবন েযন

েতামােদর কারেণ সহজ হেয় যায়, কিঠন ও সংকীণর হেয় না পেড়৷
আলাহ িনেজ নবী সালালাহ আলাইিহ ওয়া সালােমর এ গেণরই পশংসা কেরেছনঃ
-----------------------------------আলাহর রহমেত তুিম তােদর জেনয েকামল পমািণত হেয়েছা, নয়েতা যিদ েতামার বযবহার ককরশ হেতা এবং েতামার মন হেতা সংকীণর ও অনুদার, তাহেল এসব েলাক
েতামার চারিদক েথেক সের েযেতা৷ -(আল ইমরানঃ ১৫৯)
(২)সেতযর দাওয়ােতর সাফেলযর মূলমন হেচ, দাওয়াতদানকারীরা দাশরিনক তত ও সূকািতসুক ততােলাচনার পিরবেতর েলাকেদরেক এমনসব সহজ সরল সৎকােজর
িনেদরশ েদেবন যা সবার কােছ সৎকাজ িহেসেব পিরিচত অথবা যােদর সৎকাজ হবার বযাপাির বুঝার জেনয পেতযক মানুেষর সাধারণ জানই (Common sence )যেথষ
হয়৷ এভােব সেতযর আহবায়েকর আেবদন সাধারণ -অসাধারণ িনিবরেশেষ সবাইেক পভািবত কের এবং পেতযকিট েশাতার কান েথেক হদয় অভযনের পেবেশর পথ েস
িনেজই ৈতরী কের েনয়৷ এ ধরেনর পিরিচত সৎকেমরর দাওয়ােতর িবরেদ যারা পিতবােদর ঝড় েতােল তারা িনেজরাই িনেজেদর বযথরতা ও এ দাওয়ােতর সাফেলযর পথ পসস
কের৷ কারণ সাধারণ মানুষ যতই িবেদষ ভাবাপন েহাক না েকন যখন তারা েদেখ েয, একিদেক সৎ,ভদ ও উনত ৈনিতক চিরেতর অিধকারী এক বযিক সরল সহজভােব
েসাজাসুিজ সৎকােজর দাওয়াত িদেচ এবং অনযিদেক এক দল েলাক তার িবেরািধতায় েনেম এমন পদিত অবলমন করেছ যা ৈনিতকতা ও মানবতার সমূণর পিরপনী
,তখন সাভািবকভােবই ধীের ধীের সতয িবেরাধীেদর পিত তােদর মন িবরপ হেয় উঠেত থােক এবং সেতযর আহবায়েকর পিত আকৃষ হেয় েযেত থােক৷ এমনিক েশষ পযরন
েমাকািবলার ময়দােন েকবলমাত এমন সব েলাক েথেক যায়, বািতল বযবসার পিতষার মেধয যােদর বযিকগত সাথর িনিহত অথবা পূববর তরীেদর অন অনুসরেণর েপরণা ও
জােহলী িবেদষ যােদর মেন েয েকান ধরেনর আেলা গহণ করা কমতা িবণষ কের িদেয়েছ৷ এ কমরেকৌশেলর বেদৌলেতই নবী (সা) আরেব সাফলয অজরন কেরন এবং তারপর
মাত িকছু িদেনর মেধয িনকটবিতর েদশগেলায় ইসলাম এমনভােব িবসার লাভ কের েয, েসখােন েকাথাও মুসলমানেদর সংখা দঁাড়ায় শতকরা একশ ভাগ, েকাথাও নবই
ভাগ এবং েকাথাও আিশ ভাগ৷
(৩) সেতযর এ দাওয়ােতর েকেত েযখােন একিদেক নযায় ও কলযাণ অনুসনানীেদরেক সৎকােজর িদেক উদুদ করা জররী , েসখােন মূখরেদর সােথ েকান পকার সংঘষর ও
িবেরােধ জিড়েয় না পড়াও অপিরহাযর , যতই তারা সংঘষর ও িবেরাধ সৃিষ করার জেনয যত েচষাই করক৷ যারা নযায়সংগতভােব বুিদ িবেবচনার সােথ বকবয অনুধাবন করেত
চায় আহবায়েকর উিচত একমাত তােদরই সেমাধন করা৷এ বযাপাের তােক অিত সাবধানী হেত হেব৷ অনযিদেক যখন েকান বযিক িনেরট মূেখরর মত বযবহার শর কের েদয়
তকর িবতকর েগায়াতুরিম ,ঝগড়-ঝািট ও গািলগালােজর পযরােয় েমেন আেস তখন আহবায়েকর তার পিতদনীর ভুিমকায় অবতীণর হেত অসীকার করা উিচত৷কারণ এেত কিতর
সমবনা রেয়েছ ৷ কারণ আহবায়েকর েয শিক ইসলামী দাওয়াত সমসারণ ও বযিক চিরত সংেশাধেনর কােজ বযিয়ত হওয়া উিচত তা অযথা এ বােজ কােজ বযয় হেয় যায়৷
(৪)িতন নমের িনেদরশ েদয়া হেয়েছ েসই পসংেগ আেরা িনেদরশ হেচ এই েয,সেতযর আহবায়ক যখনই িবেরািধেদর জুলুম ,িনযরাতন ও অিনষকর কাযরকলাপ এবং তােদর
মূখরতা পসূত অিভেযাগ -আপিতর কারেণ মানিসক উেতজনা অনুভব করেত তখনই তার বুেঝ েনয়া উিচত েয, এিট শয়তােনর উসািন ছাড়া আর িকছুই নয়৷ তখনই তার
আলাহর কােছ এ মেমর আশয় চাওয়া উিচত েয, আলাহ েযন তার বানােক এ উেতজনার েসােত ভািসেয় না েদনএবং তােক এমন অসংযমী ও িনয়ননিবহীন না কেরন যার
ফেল েস সেতযর দাওয়াতেক কিতগস করার মত েকান কাজ কের বেস৷সেতযর দাওয়ােতর কাজ ঠাণা মাথাই করা েযেত পাের৷ আেবগ -উেতজনার বশবিতর না হেয় পিরেবশ
পিরিসিত এবং সময় -সুেযাগ েদেখ গভীরভােব িচনা-ভাবনা কের েয পদেকপিট েনয়া হয় একমাত েসিটই সিঠক হেত পাের৷ িকন শয়তান েযেহতু এ কাজিটর উনিত
কখেনা দেচােখ েদখেত পাের না তাই েস হােমশা িনেজর সংগী -সাথীেদর সাহােযয সেতযর আহবায়েকর ওপর নানান ধরেনর আকমণ পিরচালনার েচষা চালায়৷আবার
পেতযকিট আকমেণর পর েস আহবায়কেক এই বেল েকপােত থােক েয, এ আকমেণর জবাব েতা অবশযই েদয়া দরকার৷ আহবায়েকর মেনর দয়াের শয়তােনর এ আেবদন
অিধকাংশ সময় অিতশয় পতারণাপূণর বযাখযা ও ধমরীয় সংসােরর েমাড়েক আবৃত হেয় আেস ৷ িকন এর গভীের সংকীণর সাথরপীিত ছাড়া আর িকছুই থােক না ৷ তাই েশষ দ
আয়ােত বলা হেয়েছঃ যারা মুকাকী (অথরাৎ আলাহেক ভয় কের কাজ কের এবং অসৎকাজ েথেক দূের থাকেত চায়) তারা িনেজেদর মেন েকান শয়তানী পেরাচানার পভাব
এবং েকান অসৎ িচনার েছায়া অনুভব করেতই সােথ সােথই সজাগ হেয় ওেঠ৷ তারপর এ পযরােয় েকান ধরেনর কমরপদিত অবলমেন দীেনর সাথর রিকত হেব এবং সতয
পীিতর অংগাংগীভােব জিড়ত এবং এ জেনয শয়তােনর সােথ যােদর ভাতৃেতর সমকর গেড় উেঠেছ তারা অবিশয শয়তানী পেরাচনার েমাকািবলায় িটেক থাকেত পাের না৷
এবং তার কােছ পরািজত হেয় ভুল পেথ পা বাড়ায়৷তারপর শয়তান তােদরেক নােক রিশ লািগেয় েযখােন ইচা েঘারােত থােক এবং েকাথাও িগেয় িসর হেত েদয়
না৷িবেরাধীেদর পেতযকিট গািলর জবােব তােদর কােছ গািলর সপ এবং তােদর পেতযকিট অপেকৌশেলর জবােব তার চাইেতও বড় অপেকৌশল তােদর কােছ ৈতরী থােক৷
এ বকেবযর একিট সাধারণ পেয়াগ েকেতও রেয়েছ৷ মুকাকী েলােকরা িনেজেদর জীবেন সাধারণত অমুতাকী েলাকেদর েথেক িভন পদিত অবলমন কের থােক৷ যারা
পকৃতপেক আলাহ েক ভয় কের এবং সবরানকরেণ অসৎকাজ েথেক দূের থাকেত চায় তােদর মেন কখেনা অসৎ িচনার সামানযতম সশরও লােগ তাহেল তােদর মনেক তা
িঠক েতমিনভােব আহত কের েযমন আঙুেল কঁাটা িবঁেধ েগেল বা েচােখ বািলর কণা পড়েল মানুষ যননা েবাধ কের৷ েযেহতু তারা অসৎ িচনা ,অসৎ কামনা-বাসনা ও অসৎ
সংকল করেত অভযস নয় তাই িজিনসগেলা তােদর জেনযআঙুেল কঁাটা ফুেট যাওয়া, েচােখ বািল পড়া অথবা সশরকাতর ও পিরচনতা িপয় বযিকর কাপড় কািলর দাগ
েলেগ যাওয়া বা ময়লার িছঁেট পড়ার মত অসিসকর েবাধ হয়৷ তারপর তােদর মেন এভােব অসিসর কঁাটা যাবার পর তােদর েচাখ খুেল যায় এবং তােদর িবেবক েজেগ উেঠ ,
অসৎ পবণতা এ ধূেলােমািট েফলার কােজ বযাপৃত হয়৷ অনযিদেক যারা আলাহেক ভয় কের না, অসৎকাজ েথেক বঁাচেতও চায় না এবং শয়তােনর সােথ িনিবড় সমকরও
কােয়ম কের েরেখেছ তােদর মেন অসৎ িচনা ,অসৎ সংকল ও অসৎ উেদশয পিরপকতা লাভ করেত থােক এবং তারা এসব পচা দগরনময় আবজরনায় েকান পকার অসিস
অনুভব কের না৷তােদর অবসা হয় িঠক েতমিন েযমন েকান েডকিচেত শেয়ােরর মাংস রানা করা হেচ িকন েডকিচ এর েকান খবরই রােখ না েয, তার মেধয িক রানা হেচ৷
অথবা েকান ধাঙেড়র সারা েদহ ও কাপড় েচাপড় ময়লায় ভের েগেছ এবং তা েথেক ভীষণ দগরনও েবরেচ িকন তার মেধয েকান অনুভুিতই েনই েয, েস িকেসর মেধয
আেছ৷

ْ ‫ي ِم ك‬
‫ن‬
ّ ‫حى ِإَل‬
َ ‫ل ِإّنَما َأّتِبُع َما ُيو‬
ْ ‫جَتَبْيَتَها ُق‬
ْ ‫لا‬
َ ‫َوِإَذا َلْم َتْأِتِهْم ِبَآَيٍة َقاُلوا َلْو‬
﴾7:203﴿ ‫ن‬
َ ‫حَمٌة ِلَقْوٍم ُيْؤِمُنو‬
ْ ‫ن َرّبُكْم َوُهًدى َوَر‬
ْ ‫صاِئُر ِم‬
َ ‫َرّبي َهَذا َب‬
(7:203) [O Prophet!] When you do not produce before them any miracle, they say: 'Why

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

do you not choose for yourself a miracle?' *151 Say to them: 'I follow only what is
revealed to me by my Lord. This is nothing but a means of insight into the truth, and
guidance and mercy from your Lord to the people who believe. *152
*151. This question is a taunt rather than a simple query. What the utterance implies is that if
the claim to prophethood is genuine, it should have been supported by some miracle. The next
verse contains a fitting rejoinder to the taunt.
*152. The Prophet (peace be on him) is being made to tell his opponents in clear terms that he
has no power to get whatever he wants. Being God's Messenger, he is required to follow the
directives of the One Who has sent him and has granted him the Qur'an which has the light of
guidance. The major characteristic of this Book is that those who seek guidance from it do
indeed find the right way. The moral excellence visible in the lives of those people who accept
the Qur'an is testimony to the fact that they have been blessed with God's mercy.
(৭:২০৩) েহ নবী !যখন তুিম তােদর সামেন েকান িনদশরন (অথরাৎ মুিজযা )েপশ কেরা না তখন তারা বেল, তুিম িনেজর জনয েকান িনদশরন েবেছ
নাওিন েকন? ১৫১ তােদরেক বেল দাও, আিম েতা েকবল েসই অহীরই আনুগতয কির যা আমার রব আমার কােছ পাঠান৷ এিট েতা অনরদৃিষর আেলা
েতামােদর রেবর পক েথেক এবং েহদায়াত ও রহমত তােদর জনয যারা এেক গহণ কের৷ ১৫২
১৫১. কােফেদর এ পেশর মেধয একিট সুসষ িবদেপর ভাব ফুেট উেঠিছল৷ অথরাৎ তােদর কথাটার অথর িছলঃ আের িময়া! তুিম েযভােব নবী হেয় বেসেছা িঠক েতমিনভােব
িনেজর জেনয একিট মুিজযাও েবেছ খুেট সােথ িনেয় এেল পারেত৷ িকন এ িবদেপর জবাব িকভােব েদয়া হেয়েছ তা েদখুন৷
১৫২. অথরাৎ েয িজিনসিটর চািহদা েদখা েদয় বা আিম িনেজ যার পেয়াজন অনুভব কির েসিট আিম িনেজ উদাবন বা ৈতরী কের েপশ কের েদেবা, এটা আমার কাজ নয়৷
আিম েতা একজন রসূল -আলাহর েপিরত৷ আমার দািয়ত েকবল এতটুকু িযিন আমােক পািঠেয়েছন তঁার িনেদরশ অনুযায়ী কাজ কের যােবা৷ মুিজযার পিরবেতর আমরা
েপরণকারী আমার কােছ এ কুরআন পািঠেয়েছন৷ এর মেধয আেছ অনদৃিষর আেলা৷ এর পধানতম ৈবিশষ হেচ এই েয,যারা এেক েমেন েনয় তারা জীবেনর সিঠক সরল
পথ েপেয় যায় এবং তােদর ৈনিতক বৃিতর আলাহর অনুগেহর িনদশরন সুষষ ভােব পকািশত হেত থােক৷

﴾7:204﴿

َ ‫حُمو‬
‫ن‬
َ ‫صُتوا َلَعّلُكْم ُتْر‬
ِ ‫سَتِمُعوا َلُه َوَأْن‬
ْ ‫ن َفا‬
ُ ‫ئ اْلُقْرَآ‬
َ ‫َوِإَذا ُقِر‬

(7:204) So when the Qur'an is recited, listen carefully to it, and keep silent so that you
may, be shown mercy.' *153
*153. The unbelievers are asked to shed their prejudice and to abandon their deliberate
indifference to the Qur'an. Whenever the Qur'an is recited to them, they stuff their fingers into
their ears and make a lot of noise lest they or any others hear the Qur'an. They should better
behave more maturely and make an effort to grasp the teachings of the Qur'an. It is quite likely
that their study, of the Book would ultimately make them share with Muslims the blessings of
the Qur'an. This is an excellent, subtle and heart-winning approach which simply cannot be
over-praised. Those who are interested in learning the art of effective preaching can benefit
immensely by, pondering over this Qur'anic verse.
The main purpose of the verse has also been explained. By implication, however, the verse also

enjoins people to be silent and to listen attentively to the Qur'an when it is being recited. The
verse also provides the basis of the rule that when the leader (imam) is reciting verses of the
Qur'an in Prayer, the followers in the congregation should (refrain from reciting and) listen to
the recitation in silence. There is some disagreement among scholars on this issue. Abu Hanifah
and his disciples are of the view that the followers in the congregation should remain silent,
irrespective of whether the the imam is reciting the Qur'an aloud or silently in his mind. On the
other hand, Malik and Ahmad b. Hanbal are of the opinion that the followers in the
congregation should listen silently only when the Qur'an is being recited aloud. According to
Shafi'i, the followers in the congrega tion should also recite the Qur'an regardless of whether
the imam is reciting the Qur'an aloud or silently'. His view is based on the Hadith that Prayer
without recitation of al-Fatihah is void. (See Ibn Rushd, Bidayat al-Mujtahid, vol. 1, pp. 14950; Ibn Qudamah, al-Mughni, vol. 1, pp. 562-9 - Ed.)
(৭:২০৪) যখন কুরআন, েতামােদর সামেন পড়া হয়, তা েশােনা মেনােযাগ সহকাের এবং নীরব থােকা, হয়েতা েতামােদর পিতও রহমত বিষরত হেব৷
১৫৩

১৫৩. অথরাৎ িবেদষ, সাথরপরতা ও হঠকািরতার কারেন েতামরা কুরআেনর বানী শনেতই েয কােন আঙুল দাও এবং িনেজরা না শনার ও অনযেদর না শনেত েদয়ার উেদেশয
েয ৈহ ৈচ ও েশারেগাল শর কের থােকা, এ নীিত পিরহার কেরা৷ বরং কুরআেনর বাণী গভীর মেনােযাগ সহকাের েশােনা এবং তার িশকা অনুধাবন কেরা৷ এর িশকার সােথ
পিরিচত হবার পর ঈমানদারেদর মত েতামােদর িনেজেদরও এর রহমেতর অংশীদার হেয় যাওয়া েকান িবিচত বযাপার নয়৷ িবেরাধীেদর িবদপাতাক বেকািকর জবােব এিট
এমন একিট মািজরত মধুর ও হদয়গাহী পচার নীিত, যার চমৎকািরত বণরনা কের েশষ করা যায় না৷ েয বযিক পচার েকৌশল িশখেত চায় গভীরভােব িবেশষণ করেল এ জবাব
েথেক েস তা িশখেত পাের৷
এআয়ােতর মূল উেদশয েতা আিম ওপের বণরনা কেরিছ৷ িকন পেরাকভােব এ েথেক এ িবধানও পাওয়া যায় েয, যখন আলাহর কালাম পাঠ করা হয় তখন েলাকেদর আদব
সহকাের নীরব থাকা এবং মেনােযাগ সহকাের তা েশানা উিচত৷ এ েথেক এ কথািটও পমািণত হয় েয, নামােযর মেধয ইমাম যখন কুরআন েতলাওয়াত করেত থােকন তখন
মুকতাদীেদর নীরেব েশানা উিচত৷ িকন এ িবষেয় ইমামেদর মেধয িবিভন মেতর সৃিষ হেয়েছ৷ ইমাম আবু হািনফা (রা) এবং তার সাথীেদর মেত ইমামেদর েকরাআত উচসের
েহাক বা অনুচ সের েহাক সব অবসায় মুকতাদীেদর নীরব থাকেত হেব৷ইমাম মািলক (র) ও ইমাম আহমেদর (র) মেত েকবলমাত ইমাম যখন উচ সাের েকরআত পড়েবন
তখনই মুকতাদীেদর নীরেব থাকেত হেব৷ িকন ইমাম শাফীঈ (র) বেলন, ইমােমর উচ ও অনুচ সের েকরাআত পড়ার উভয় অবসায়ই মুকতাদীেদর েকরাআত পড়েত হেব৷
কারণ েকান েকান হাদীেসর িভিতেত িতিন মেন কেরন,েয বযিক নামােয সূরা ফােতহা পেড় না তার নামায হয় না৷

ِ ‫ن اْلَقكْو‬
‫ل‬
َ ‫جْهكِر ِمك‬
َ ‫ن اْل‬
َ ‫خيَفكًة َوُدو‬
ِ ‫عا َو‬
ً ‫ضكّر‬
َ ‫ك َت‬
َ ‫سك‬
ِ ‫ك ِفككي َنْف‬
َ ‫َواْذكُْر َرّبك‬
﴾7:205﴿ ‫ن‬
َ ‫ن اْلَغاِفِلي‬
َ ‫ن ِم‬
ْ ‫ل َتُك‬
َ ‫ل َو‬
ِ ‫صا‬
َ ‫ل‬
َْ ‫ِباْلُغُدّو َوا‬
(7:205) And remember [O Prophet] your Lord in your mind, with humility and fear, and
without raising your voice; remember Him in the morning and evening, and do not
become of those who are negligent. *154
*154. The command to remember the Lord signifies remembrance in Prayer as well as
otherwise, be it verbally or in one's mind. Again the directive to remember God in the morning
and in the evening refers to Prayer at those times as well as remembering God at all times. The
purpose of so saying is to emphasis constant remembrance of God. This admonition - that man
ought to remember God always - constitutes the conclusion of the discourse lest man becomes
heedless of God. For every error and corruption stems from the fact that man tends to forget
that God is his Lord and that in his own part he is merely, a servant of God who is being tested
in the world; that he will be made to render, after his death, a full account to his Lord of all his
deeds. All those who care to follow, righteousness would, therefore, be ill-advised not to let
these basic facts slip out of their minds. Hence Prayer, remembrance of God and keeping ones

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]

attention ever focused on God are frequently stressed in the Qur'an.
(৭:২০৫) েহ নবী!েতামার রবেক সারণ কেরা সকাল-সঁােঝ মেন মেন কানাজিড়ত সের ও ভীিত িবহল িচেত এবং অনুচ কেণ৷ তুিম তােদর
অনরভুক হেয়া না যারা গাফলিতর মেধয ডুেব আেছ৷ ১৫৪
১৫৪. সরণ করা অথর নামাযও এবং অনযানয ধরেনর সরণ করাও৷ চাই মুেখ মুেখ বা মেন মেন েয েকানভােবই তা েহাক না েকন৷ সকাল -সাঝ বলেত িনিদরষভােব এ দিট
সময়ও বুঝােনা হেয় থাকেত পাের৷ আর এ দ সমেয় আলাহর সরণ বলেত বুঝােনা হেয়েছ নামাযেক৷ পকানের সকাল সঁাঝ কথাটা সবরকণ অেথরও বযবহত হয়এবং তখন
এর অথর হয় সবসময় আলাহর সরেণ মশগল থাকা৷ এ ভাষণিটর উপসংহাের সবরেশষ উপেদশ িহেসেব এটা বলা হেয়েছ ৷ এর উেদশয বণরনা পসংেগ বলা হেয়েছ েতামােদর
অবসা েযন গােফলেদর মত না হেয় যায়৷ দিনয়ায় যা িকছু েগামরাহী ছিড়েয়েছ এবং মানুেষর ৈনিতক চিরেত ও কমরকােণ েয িবপযরয়ই সৃিষ হেয়েছ তার একমাত কারণ
হেচ,মানুষ ভুেল যায় , আলাহ তার রব েস আলাহর বানা , দিনয়ায় তােক পরীকা করার জেনয পাঠােনা হেয়েছ এবং দিনয়ার জীবন েশষ হবার পর তােক তার রেবর কােছ
িহেসব িদেত হেব৷কােজই েয বযিক িনেজও সিঠক পেথ চলেত চায় এবং দিনয়ার অনযানয মানুষেকও তদনুসাের চালােত চায় েস িনেজ েযন কখেনা এ ধরেনর ভুল না কের,
এ বযাপাের তােক কেঠার সতকরতা অবলমন করেত হেব৷ এ জেনযই নামায ও আলাহর িযিকেরর মাধযেম সব সময় সায়ীভােব আলাহর পিত আকৃষ থাকার ও তঁার সােথ
সমকর রাখার জেনয বার বার তাকীদ করা হেয়েছ৷

‫حوَنُه َوَل كُه‬
ُ ‫س كّب‬
َ ‫عَبككاَدِتِه َوُي‬
ِ ‫ن‬
ْ ‫عك‬
َ ‫ن‬
َ ‫س كَتْكِبُرو‬
ْ ‫ل َي‬
َ ‫ك‬
َ ‫عْن كَد َرّب ك‬
ِ ‫ن‬
َ ‫ن اّل كِذي‬
ّ ‫ِإ‬
﴾7:206﴿ ‫ن‬
َ ‫سجُُدو‬
ْ ‫َي‬
(7:206) [The angels] who are near to Your Lord, never turn away from His service out of
arrogance; *155 they rather glorify Him *156 and prostrate themselves before Him. *157
*155. It is Satan who behaves arrogantly and disdains to worship God, and such an attitude
naturally brings about degradation and abasement. But an attitude marked by consistent
surrender to God characterizes angels and leads people to spiritual elevation and proximity to
God. Those interested in attaining this state should emulate the angels and refrain from
following the ways of Satan.
*156. To celebrate God's praise signifies that the angels acknowledge and constantly affirm that
God is beyond any flaw, free from every defect, error and weakness; that He has no partner or
peer; that none is like Him.
*157. Whoever recites or hears this verse should fall in prostration so as to emulate the practice
of angels. In addition. prostration also proves that one has no shred of pride, nor is one averse
to the duty of being subservient to God.
In all, there are fourteen verses in the Qur'an the recitation of which requires one to prostrate.
That one should prostrate on reading or hearing these verses is, in principle, an incontrovertible
point. There is, however, some disagreement about it being obligatory (wajib). Abu Hanifah
regards it as obligatory, while other authorities consider it to be recommended (Ibn Qudamah,
Al-Mughni, vol. 1. p. 663; Al-Jaziri, Kitab al-Fiqh 'ala al Madhahib al-arba'ah, vol. 1. p. 464 -

Ed.)
According to traditions, while reciting the Qur'an in large gatherings, when the Prophet (peace
be on him) came upon a verse the recitation of which calls for prostration, he prostrated, and
the whole gathering followed suit. The traditions mention that sometimes some people did not
have room to prostrate. Such people prostrated on the backs of others. (See Bukhari, Abwab
sujud al-Quran 'Bab Izdiham al-Nas Idh'a qara'a al-Imam al-Sajdah'- Ed.) It is reported in
connection with the conquest of Makka that in the course of the Qur'an-recitation, as the
Prophet (peace be on him) read such a verse, those standing fell into prostration while those
who were mounted on horses and camels performed prostration in that very state. It is also on
record that while delivering a sermon from the pulpit the Prophet (peace be on him) came down
from the pulpit to offer prostration, and resumed his sermon thereafter. (Abu da'ud, Kitab alSalah, 'Bab al-Sujud fi Sad' - Ed.)
It is generally, believed that the conditions for this kind of prostration are exactly the same as
required for offering Prayer - that one should be in a state of ritual purity, that one should be
facing the Ka'bah, and that the prostration should be performed as in the state of Prayer.
However, the traditions we have been able to find in the relevant sections of the Hadith
collection do not specifically mention these conditions. It thus appears that one may perform
prostration, irrespective of whether one fulfils these conditions or not. This view is
corroborated by the practice of some of the early authorities. Bukhari, for instance, reports
about 'Abd Allah b. 'Urnar that he used to perform prostration even though he would have
required ablution if he wanted to perform Prayer. (See Bukhari, Abwab Sujud al-Quran, 'Bab
Sujud al-Muslimin ma' al-Mushrikin'- Ed.) Likewise, it has been mentioned in Fath al-Bari
about 'Abd al-Rahman al-Sulami that if he was reciting the Qur'an while moving, and he recited
a verse calling for prostration, he would simply bow his head (rather than make full
prostration). And he would do that even when he was required to make ablution for Prayer, and
regardless of whether he was facing the Ka'bah or not.
In our view, therefore, while it is preferable to follow the general opinion of the scholars on the
question, it would not be blameworthy if someone deviates from that opinion. The reason for
this is that well-established Sunnah does not support the general opinion of the scholars on this
question, and there are instances of deviation from it on the part of the early authorities.
(৭:২০৬) েতামার রেবর ঘিনষ সািনেধয অবসানকারী েফেরশতাগণ কখেনা িনেজেদর েশষেতর অহংকাের তঁার ইবাদেত িবরত হয় না,১৫৫ বরঞ তারা তঁারই
মিহমা েঘাষণা কের ১৫৬ এবং তঁার সামেন িবনত থােক ৷ ১৫৭
১৫৫. এর অথর হেচ,েশষেতর অহংকার করা ও রেবর বেনগী েথেক মুখ িফিরেয় েনয়া শয়তােনর কাজ৷ এর ফেল হয় অধপতন ও অবনিত৷ পকানের তার আলাহর সমােন ঝুঁেক পড়া
এবং তঁার বেনগীেত অিবচল থাকা একিট েফেরশতাসূলভ কাজ৷ এর ফল হয় উনিত ও আলাহর ৈনকটয লাভ৷ যিদ েতামরা এ উনিত চাও তাহেল িনেজেদর কমরনীিতেক শয়তােনর
পিরবেতর েফেরশতােদর কমরনীিতর অনুরপ কের গেড় েতাল৷
১৫৬. মিহমা েঘাষণা কের অথরাৎ আলাহ েয কিটমুক, েদাষমুক, ভুলমুক সব ধরেনর দবরলতা েথেক িতিন েয এেকবােরই পাক-পিবত এবং িতিন েয লা -শরীক , তুলনাহীন ও
অপিতদিন এ িবষয়িট সবরানকরেণ েমেন েনয়৷মুেখ তার সীকৃিত েদয় ও অংগীকার কের এবং সায়ী ভােব সবসময় এর পচার ও েঘাষনায় েসাচার থােক৷

[TOWARDS UNDERSTANDING THE HOLY QUR'AN
November 5, 2009 007. SURAH AL-A'ARAF]
১৫৭. এ েকেত শরীয়েতর িবধান এই েয, েয বযিক এ আয়াতিট পড়েব বা শনেব তােক িসজদা করেত হেব৷ এভােব তার অবসা হেয় যােব আলাহর িনকটতম েফেরশতােদর মত৷
এভােব সারা িবশ জাহােনর বযবসাপনা পিরচালনাকারী কমরীরা েয মহান আলাহর সামেন নত হেয় আেছ তারাও তােদর সােথ তঁার সামেন নত হেয় যােব এবং িনেজেদর কমরকােণর
মাধযেম সংেগ সংেগই একথা পমাণ কের েদেব েয, তারা েকান অহিমকায় েভােগ না এবং আলাহর বােনগী েথেক মুখ িফিরেয় েনয়াও তােদর সভাব নয়৷
কুরআন মজীেদ েচৌদিট সােন িসজদার আয়াত এেসেছ৷ এ আয়াতগেলা পড়েল বা শনেল িসজদা করেত হেব, এিট ইসলামী শরীয়ােতর একিট িবিধবদ িবষয়,এ বযাপাের সবাই
একমত৷তেব এ িসজদা ওয়ািজব হবার বযাপাের িবিভন মত রেয়েছ৷ ইমাম আবু হানীফা, (র) েতলাওয়ােত িসজদােক ওয়ািজব বেলন৷ অনযানয উলামা বেলন এিট সুনত৷ নবী সালালাহ
আলাইিহ ওয়া সালাম অেনক সময় একিট বড় সমােবশ কুরআেন পড়েতন এবং েসখােন িসজদার আয়াত এেল িতিন িনেজ তৎকণাৎ িসজদা করেতন এবং সাহাবীগণএর িযিন েযখােন
থাকেতন িতিন েসখােনই িসজদানত হেতন৷এমনিক েকউ েকউ িসজদা করার জায়গা না েপেয় িনেজর সামেনর বযিকর িপেঠর ওপর িসজদা করেতন৷ হাদীেস একথাও এেসেছ, মকা
িবজেয়র সময় িতিন কুরআন পেড়ন৷ েসখােন িসজদার আয়াত এেল যারা মািটর ওপর দঁািড়েয়িছেলন তারা মািটেত িসজদা কেরন এবং যারা েঘাড়ারও উেটর িপেঠ সওয়ার িছেলন তারা
িনেজেদর বাহেনর িপেঠই ঝুঁেক পেড়ন৷ কখেনা নবী (সা) খুতবার মেধয িসজদার আয়াত পড়েতন, তখন িমমার েথেক েনেম িসজদা করেতন তারপর আবার িমমেরর ওপর উেঠ খুতবা
িদেতন৷
অিধকাংশ আেলেমর মেত নামােযর জেনয েযসব শতর িনধরািরত এ েতলাওয়ােতর িসজাদার জনযও তাই িনধরািরত ৷ অথরাৎ অযুসহকাের িকবলার িদেক মুখ কের নামােযর িসজদার মত
কের মািটেত মাথা েঠকােত হেব৷িকন েতলাওয়ােতর িসজদার অধযােয় আমরা যতগেলা হাদীস েপেয়িছ েসখােন েকাথাও এ শতরগেলার সপেক েকান পমাণ েনই৷ েসখান েথেক েতা
একথাই জানা যায় েয, িসজদার আয়াত শেন েয বযিক েযখােন েয অবসায় থােক েস অবসায়ই েযন িসজদা কের - তার অযু থাক বা না থাক,িকবলামুখী হওয়া তার পেক সমব েহাক
বা না েহাক, মািটেত মাথা রাখার সুেযাগ পাক বা না পাক তােত িকছু আেস যায় না৷ পথম যুেগর আেলমেদর মেধযও আমরা এমন অেনক েলাক েদিখ যারা এভােবই েতলাওয়ােতর
িসজদা কেরেছন৷ ইমাম বুখারী হযরত আবদলাহ ইবেন উমর (রা) সমেকর িলেখেছন, িতিন অযু ছাড়াই েতলাওয়ােতর িসজদা করেতন৷কাতহূল বারীেত আবু আবদর রহমান সুলামী
সমেকর বলা হেয়েছ, িতিন পথ চলেত কুরআন মজীদ পড়েতন এবং েকাথাও িসজদার আয়াত এেলই মাথা ঝুঁিকেয় িনেতন৷ অযু সহকাের থাকুন বা থাকুন এবং িকবলার িদেক মুখ
িফরােনা থাক বা না থাক, তার পেরায়া করেতন না৷ এসব কারেণ আিম মেন কির, যিদও অিধকাংশ আেলমেদর মতিটই অিধকতর সতকরমূলক তবুও েকান বযিক যিদ অিধকাংশ
আেলেমর মেতর িবপিরত আমল কের তাহেল তােক িতরসার করা েযেত পাের না৷ কারণ অিধকাংশ আেলমেদর মেধয এমনসব েলাকও পাওয়া েগেছ যােদর রীিত িছল পরবতরীকােলর
অিধকাংশ আেলমেদর েথেক িভনতর৷